দেশ

ধর্ম নিয়ে রাজনীতি বন্ধ হলেই
বিদ্বেষমূলক ভাষণ থেমে যাবে
মন্তব্য সুপ্রিম কোর্টের

নয়াদিল্লি: বিদ্বেষমূলক ভাষণ নিয়ে কড়া মনোভাব সুপ্রিম কোর্টের। ধর্মীয় ভাবাবেগ নিয়ে রাজনীতির কারণেই এধরনের মন্তব্যের বাড়বাড়ন্ত দেখা যাচ্ছে। রাজনীতি থেকে ধর্মকে আলাদা রাখলে ও নেতারা রাজনীতিতে ধর্মীয় আবেগের ব্যবহারে লাগাম টানলেই বিদ্বেষমূলক ভাষণের সমস্ত ঘটনা বন্ধ হয়ে যাবে। এসংক্রান্ত একটি মামলার শুনানিতে বুধবার এমনই তাৎপর্যপূর্ণ মন্তব্য করল শীর্ষ আদালত। এই মামলার শুনানিতে সংশ্লিষ্ট রাজ্য সরকারগুলির ভূমিকা নিয়েও সুপ্রিম কোর্ট প্রশ্ন তুলেছে। আদালত বলেছে, রাজ্য সরকার অপারগ। তাই এসব ঘটছে। এমন সব ঘটনা যখন ঘটছে, তখন রাজ্য হাত গুটিয়ে থাকবে কেন?
বিদ্বেষমূলক ভাষণ নিয়ে আদালতের নির্দেশ সত্ত্বেও বিভিন্ন রাজ্য সরকার এফআইআর দায়ের করছে না। এই অভিযোগে আদালত অবমাননার একটি আর্জি জমা পড়েছে।  বিচারপতি কে এম জোসেফ এবং বি ভি নাগরত্নের বেঞ্চ বলেছে, ‘নেতারা যখন রাজনীতি এবং ধর্মকে মিশিয়ে ফেলেন, তখনই সমস্যার সূত্রপাত। ধর্ম থেকে রাজনীতিকে আলাদা করে দিলেই সব সমস্যা মিটে যাবে।’ রাজনীতি, ধর্ম এবং বিদ্বেষমূলক মন্তব্যের যোগসাজশকে ‘দুষ্ট চক্র’ বলেও মন্তব্য করেছে শীর্ষ আদালত। 
বিচারপতি জোসেফ বলেছেন, ‘প্রত্যেক দিন অবাঞ্ছিত লোকজন টিভিতে, প্রকাশ্য সভায় এমন সব মন্তব্য করছেন, যা অন্যদের পক্ষে অবমাননাকর। সহ নাগরিক বা অন্য সম্প্রদায়ের সম্মানহানি হয়, এমন মন্তব্য থেকে দূরে থাকার অঙ্গীকার কেন করতে পারেন না দেশের মানুষ? সহিষ্ণুতা কী? সহিষ্ণুতার অর্থ মতপার্থক্যকে স্বীকার করা।’ বিচারপতি নাগরত্নের পর্যবেক্ষণ, আমরা কোথায় যাচ্ছি? একটা সময় পণ্ডিত জওহরলাল নেহরু ও অটলবিহারী বাজপেয়ির মতো বক্তারা ছিলেন। তাঁদের ভাষণ শুনবেন বলে গ্রামগঞ্জের মানুষ ভিড় করতেন। আর এখন সর্বত্র অবাঞ্ছিত মন্তব্যের বন্যা বইছে। আমরা কি তাহলে দেশের সব নাগরিকের বিরুদ্ধেই আদালত অবমাননার প্রক্রিয়া শুরু করব? উপযুক্ত জ্ঞান ও শিক্ষার অভাবেই অসহিষ্ণুতা তৈরি হয়। মামলার পরবর্তী শুনানি ২৮ এপ্রিল। 
15Months ago
কলকাতা
রাজ্য
বিদেশ
খেলা
বিনোদন
ব্ল্যাকবোর্ড
শরীর ও স্বাস্থ্য
বিশেষ নিবন্ধ
সিনেমা
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
আজকের দিনে
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
mesh

মাতুলের থেকে বিত্তলাভ হতে পারে। কোনও বিষয়ের মানসিক উদ্বেগ কমবে। বিদ্যাচর্চায় বিশেষ শুভ।...

বিশদ...

এখনকার দর
ক্রয়মূল্যবিক্রয়মূল্য
ডলার৮২.৬৬ টাকা৮৪.৪০ টাকা
পাউন্ড১০৩.৮৯ টাকা১০৭.৩৫ টাকা
ইউরো৮৭.৭৬ টাকা৯০.৮৮ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
*১০ লক্ষ টাকা কম লেনদেনের ক্ষেত্রে
25th     June,   2024
দিন পঞ্জিকা