বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
দক্ষিণবঙ্গ
 

বউ পুরসভার কর্মী হলেও রেয়াত করা হবে না, ব্যবসায়ীকে হুঁশিয়ারি চেয়ারম্যানের

সংবাদদাতা, পুরুলিয়া: বউ পুরসভার কর্মী হলেও রেয়াত করা হবে না। রবিবারের মধ্যে বেআইনি দখল না সরালে জেসিবি মেশিন দিয়ে তা ভেঙে ফেলা হবে। বুধবার বেআইনি দখলদারের বিরুদ্ধে অভিযানে নেমে শহরের এক ব্যবসায়ীকে এভাবেই হুঁশিয়ারি দিলেন পুরুলিয়া পুরসভার চেয়ারম্যান নব্যেন্দু মাহালি। ওই ব্যবসায়ী পুরকর্মী স্ত্রীর প্রভাব খাটিয়ে দীর্ঘদিন ধরে নর্দমা দখল করে বেআইনিভাবে ব্যবসা করছেন বলে অভিযোগ। তাঁকে পুলিস কিছু বলতে এলে খারাপ ব্যবহার করেন বলে অভিযোগ করেন খোদ জেলার অতিরিক্ত পুলিস সুপার অম্লানকুসুম ঘোষ। এদিন সতর্ক করা হলেও আগামী দিনে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ারি দেন চেয়ারম্যান।
পুরুলিয়া শহরের বাসস্ট্যান্ড সংলগ্ন এলাকায় বুধবার অভিযানে নামেন পুর কর্তৃপক্ষ এবং পুলিস। লক্ষ্য যানজট নিয়ন্ত্রণে জবরদখল মুক্ত করা। এদিন উচ্ছেদ অভিযানে পুরসভার চেয়ারম্যান, অতিরিক্ত পুলিস সুপার ছাড়াও ট্রাফিক বিভাগের আধিকারিকরা উপস্থিত ছিলেন। বাসস্ট্যান্ড সংলগ্ন এলাকাতেই ফাস্টফুডের দোকান রয়েছে অভিজিৎ সিনহার। ড্রেনের স্ল্যাবের উপর তাঁর দোকানের একাংশ রয়েছে। অনেকের অভিযোগ, ব্যবসায়ীর স্ত্রী পুরসভার কর্মী হওয়ায় তাঁর বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নিতে পারছে না পুরসভা। এদিন চেয়ারম্যান ওই ব্যবসায়ীকে বলেন, বারবার বলার পরেও দোকানের অবৈধ অংশ সরানো হয়নি। বউ পুরসভার কর্মী হলেও কোনও রেয়াত করা হবে না। ওই দোকানের অবৈধ অংশের জন্য পুরসভাকে কেন বদনামের ভাগীদার হতে হবে? রবিবার পর্যন্ত সময় দেওয়া হল। তার মধ্যে সরানো না হলে জেসিবি লাগিয়ে ভেঙে দেওয়া হবে।
পুরুলিয়ার অতিরিক্ত পুলিস সুপার ওই ব্যবসায়ীকে বলেন, পুলিস কিছু বলতে এলেই খারাপ ব্যবহার করা হয়। এটা কোনওমতেই মেনে নেওয়া হবে না।
পুরুলিয়া পুরসভার ৫ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলার বিভাসরঞ্জন দাস বলেন, সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে পুরসভার কর্মী এবং কাউন্সিলার সবার জন্যই একই নিয়ম। কাউকে বাড়তি কোনও সুবিধা দেওয়া হবে না। ওই ব্যবসায়ী বলেন, স্ত্রী পুরসভায় কাজ করলেও বাড়তি কোনও সুবিধা পাই না। প্রভাব খাটানোর অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা। যদি প্রভাবই খাটাতাম তাহলে আজকে এই পরিস্থিতি তৈরি হতো কেন? এর আগে একাধিকবার দোকানের অংশ পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে। ফুটপাত থেকেও সরানো হয়েছে। পরে চেয়ারম্যান নিজে বলেছিলেন স্ল্যাবের উপরে কাজ করলে কোনও অসুবিধা নেই। এখন স্ল্যাবের উপরেও কাজ করতে বারণ করছেন। কিন্তু, শহরের পোস্টঅফিস মোড় থেকে কাপড়গলি, চকবাজার এলাকায় ড্রেনের স্ল্যাবের উপর ব্যবসা হচ্ছে। আমার এখানে নর্দমা পরিষ্কার করতেও কোনও অসুবিধা হয় না। তারপরও কেন বারবার বলা হচ্ছে জানি না। স্থানীয় ও পুরসভা সূত্রে জানা গিয়েছে, এদিন পরিদর্শনের সময় ফরেস্ট কোয়ার্টারের সামনে আবর্জনা স্তূপ নিয়ে চেয়ারম্যানকে স্থানীয় বাসিন্দারা অভিযোগ করেন। ওই এলাকায় বাসস্ট্যান্ডের গা ঘেঁষে থাকা ছোট গাড়িগুলিকে মিনি বাসস্ট্যান্ডে সরে যাওয়ার নির্দেশ দেন চেয়ারম্যান। কোর্ট মোড়ে বাস দাঁড় করিয়ে যাত্রী তোলার বিরুদ্ধে তিনি সরব হন। বাসগুলিকে ওই এলাকায় স্টপেজ না দেওয়ার নির্দেশ দেন। সেখানে বাস দাঁড়ালে ছোট গাড়ির চালকদের সম্মিলিত প্রতিবাদ করার কথা বলেন।

30th     November,   2023
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ