কলকাতা

ঘূর্ণিঝড়ের তেমন প্রভাব পড়েনি কুমোরটুলিতে, স্বস্তি মৃৎশিল্পীদের

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: রেমাল দাপট দেখালেও অক্ষত থাকল কুমোরটুলি। মহানগরের বিভিন্ন প্রান্তে গাছ ভেঙে পড়া, জল জমার সমস্যা থাকলেও কুমোরটুলির পটুয়াপাড়ায় সেই অর্থে ঝড়ের তেমন প্রভাব পড়েনি। ফলে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেছেন মৃৎশিল্পী থেকে শুরু করে এই শিল্পের সঙ্গে যুক্ত লোকজন। তাঁরা বলছেন, উম‑পুনের স্মৃতি এখনও টাটকা। তাই এবার আমরা ভয়ে সিঁটিয়ে ছিলাম। তবে প্রাকৃতিক বিপর্যয় থেকে রক্ষা পাওয়ায় স্বস্তি বোধ করছি।
শিল্পী মীনাক্ষী রুদ্রপাল বলেন, ‘আমরা আগে থেকেই সবরকম প্রস্তুতি নিয়েছিলাম। অতিরিক্ত ত্রিপল, প্লাস্টিক সহ আনুষাঙ্গিক জিনিসপত্র মজুত রেখেছিলাম। যাতে প্রবল ঝড়‑বৃষ্টি হলেও প্রতিমা রক্ষা করা সম্ভব হয়েছে। আমাদের ঘরে প্রতিমার অলঙ্কার ও জরির কাজ হয়। তাই একটু বেশি চিন্তায় ছিলাম।’ শিল্পী শম্ভু পাল বলেন, ‘এখানে অনেক শিল্পীর গোডাউন আছে। সেখানে এখন থেকেই গণেশ, লক্ষ্মী, সরস্বতী, কার্তিক তৈরি করে রাখা হচ্ছে। কোনও কোনও শিল্পীর ঘরে দুর্গার কাঠামায় মাটির প্রলেপও পড়েছে। সেগুলি গোডাউনে রাখা রয়েছে। উম‑পুনের সময় পটুয়াপাড়ায় ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছিল। তাই এবার আমরা প্রতিমা বাঁচাতে বেশ কিছু ব্যবস্থা গ্রহণ করেছিলাম।’ শিল্পী সুকুমার পাল বলেন, ‘পটুয়াপাড়ায় এখনও অনেক শিল্পীর ঘর কাঁচা অবস্থায় রয়েছে। তাই আমরা চারদিক ত্রিপল দিয়ে ঘিরে দিয়েছিলাম। প্রতিমা তৈরির বিভিন্ন সরঞ্জাম অন্যত্র সরিয়ে রাখা হয়েছিল। তাই বৃষ্টির ঝাপটা এলেও বড় ক্ষয়ক্ষতি হয়নি।’ 
কুমোরটুলি মৃৎশিল্পী সংগঠনের অন্যতম কর্তা বাবু পাল বলেন,‘ঝড়‑বৃষ্টি বড় আকারে না হওয়ায় শিল্পীদের কোনও ক্ষতি হয়নি। উম‑পুনের সময় বহু প্রতিমা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিল। ফলে শিল্পীদের আবার নতুন করে প্রতিমা গড়তে হয়েছিল। এতে আমরা আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিলাম।’ -নিজস্ব চিত্র
22d ago
রাজ্য
দেশ
বিদেশ
খেলা
বিনোদন
ব্ল্যাকবোর্ড
শরীর ও স্বাস্থ্য
বিশেষ নিবন্ধ
সিনেমা
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
আজকের দিনে
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
mesh

উচ্চশিক্ষায় নামী স্বদেশি/ বিদেশি প্রতিষ্ঠানে সুযোগ পেতে পারেন। স্ত্রীর স্বাস্থ্য বিষয়ে চিন্তা। কর্মে অগ্রগতি।...

বিশদ...

এখনকার দর
ক্রয়মূল্যবিক্রয়মূল্য
ডলার ৮২.৫৬ টাকা৮৪.৩০ টাকা
পাউন্ড১০৪.৩৩ টাকা১০৭.৮১ টাকা
ইউরো৮৮.০৪ টাকা৯১.১৭ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
*১০ লক্ষ টাকা কম লেনদেনের ক্ষেত্রে
দিন পঞ্জিকা