কলকাতা

নাগেশ্বরী মন্দিরে রামধনুর ছটা, আলপনা আর আলোকবর্তিকা

নিজস্ব প্রতিনিধি, চুঁচুড়া: উত্তর ভারতের নাগেশ্বরী মন্দিরে খেলবে রামধনুর ছটা। মুহূর্তে মুহূর্তে বদলে যাবে মণ্ডপের রং। রঙের মায়াবি ছটায় বিস্মিত হবেন দর্শনার্থীরা। শুধু কি তাই! বঙ্গজীবনের সঙ্গে ওতপ্রোতভাবে যুক্ত আলপনা ও আলোকবর্তিকার মতো নানান থিমে সেজে উঠেছে রিষড়ার বিভিন্ন পুজো মণ্ডপ। প্রতিমাতেও রয়েছে অভিনবত্বের ছোঁয়া। এতেই শেষ নয়। আগামী ২৫ তারিখ রয়েছে। আলোক শোভাযাত্রা সহযোগে মায়ের বিসর্জন। যেখাকে ব্যান্ড পার্টি সহযোগে আলোর কারিকুরিতে দর্শনার্থীদের মোহিত করতে চেষ্টার কসুর করছেন না দর্শনার্থীরা। সব মিলিয়ে জগদ্ধাত্রী পুজোকে কেন্দ্র করে রিষড়ায় উৎসবের মেজাজ।
লেনিন মাঠ যুবগোষ্ঠী পরিচালিত সর্বজনীন জগদ্ধাত্রী পুজো কমিটির পুজো এবার ৪৩ বছরে পা দিয়েছে। এবার তাদের থিম উত্তর ভারতের নাগেশ্বরী মন্দির। বিশালাকার মণ্ডপের সূক্ষ্ম কারুকাজ দর্শনার্থীদের নজর কাড়বে। তবে মণ্ডপের পাশপাশি এখানকার বিশেষ আকর্ষণ এখানকার আলো ও ধ্বনি। ডিজিটাল ব্যবস্থায় সার্ফি লাইটের তালে সুরও বাজবে। মোট ২৫ রকমের আলোর ছটায় ভরে উঠবে মণ্ডপ। মণ্ডপের উপর বিভিন্ন রকমের আলোর কারিকুরি দর্শনার্থীদের অপার বিস্ময় জাগাতে বাধ্য। সাবেকি প্রতিমার চালচিত্রে ফুটে উঠবে জবাফুল, ময়ূর ও মায়ের মুখাবয়বের ছবি। এছাড়া আগামী ২৫ তারিখের শোভাযাত্রা হবে বর্ণাঢ্য। চন্দননগরের আলোর থিমের পাশাপাশি তিনটি ব্যান্ড পার্টি ও নৃত্য দর্শনার্থীদের মোহিত করবে। বাজেট প্রায় ১০ লক্ষ টাকা। পুজো কমিটির সম্পাদক অপূর্ব ঘোষ বলেন, মণ্ডপের পাশাপাশি সার্ফি লাইটের সঙ্গে ধ্বনির সংমিশ্রণ দর্শনার্থীদের মুগ্ধ করবে। এছাড়া প্রতিমা ও শোভাযাত্রা দেখে দর্শনার্থীরা মুগ্ধ হবেন। 
রিষড়ার পশ্চিমপাড় মোড়পুকুর এলাকার কোরাস ১ নম্বর জলট্যাঙ্ক সর্বজনীন জগদ্ধাত্রী পুজো কমিটির মাতৃ আরাধনা এবার ৩৪ বছরে পা দিয়েছে। তাদের থিম আলপনা। বঙ্গজীবনের সঙ্গে ওতপ্রোতভাবে যুক্ত আলপনা। বাড়িতে কোনও মাঙ্গলিক বা শুভ কাজ, আনন্দ-অনুষ্ঠান, পুজোপার্বণে আলপনা দেওয়ার রীতি দীর্ঘদিনের। শহর থেকে গ্রাম সর্বত্র রয়েছে এই রেওয়াজ। বর্তমান প্রজন্মের অনেকেই হয়তো ভুলতে বসেছেন এই সংস্কৃতি। বিভিন্ন ধরণের আলপনার আদলে সাজিয়ে তোলা হয়েছে মণ্ডপ। মায়ের রূপেও রয়েছে অভিনবত্বের ছোঁয়া। মায়ের বিসর্জনের দিন শোভাযাত্রা রয়েছে। বাজেট প্রায় ১০ লক্ষ টাকা। পুজো কমিটির কোষাধ্যক্ষ নারায়ণ ধর বলেন, বাংলার নিজস্ব আলপনার সংস্কৃতিকে আমরা তুলে ধরতে চেয়েছি। আশা করছি, আমাদের মণ্ডপ ও মায়ের রূপ দর্শনার্থীদের মুগ্ধ করবে।
পার্ক সম্মিলনী জগদ্ধাত্রী পুজো কমিটির মাতৃবন্দনা এবার ৪৪ বছরে পা দিয়েছে। এবার তাদের থিম আলোকবর্তিকা। সভ্যতার সূচনায় রাতের আঁধার কাটিয়ে আলোর দিশা দিত জোনাকি। তারপর সভ্যতার অগ্রগতির সঙ্গে সঙ্গে মশাল, হ্যাজাক, হ্যারিকেনের হাত ধরে এসেছে ইলেকট্রিক। কিন্তু মনের গহিন অরণ্যের অন্ধকার কাটানোর আলোর জন্য চাই আলোকবর্তিকা। নানান আলোর মাধ্যমে তৈরি করা হয়েছে মণ্ডপ। মা এসেছেন রাজবেশে। শোভাযাত্রায় রয়েছে আলোর রোশনাই। বাজেট প্রায় ১১ লক্ষ টাকা। পুজো কমিটির সম্পাদক অনিমেষ দাশগুপ্ত বলেন, মনের অন্ধকার নাশ করে মা আমাদের মধ্যে জ্ঞানের আলো জ্বালুক। সমস্ত অন্ধকারের অবসানে নতুন আলোকবর্তিকার উদয় হোক। এই প্রার্থনা থেকেই আমাদের থিম ভাবনা। আশা করছি, আমাদের থিম, মায়ের রূপ ও শোভাযাত্রা দর্শনার্থীদের মুগ্ধ করবে।
রিষড়া রবীন্দ্র সঙ্ঘের জগদ্ধাত্রী প্রতিমা (বামদিকে)। রিষড়া লেনিন মাঠ যুব গোষ্ঠীর মাতৃমূর্তি (ডানদিকে)।
7Months ago
রাজ্য
দেশ
বিদেশ
খেলা
বিনোদন
ব্ল্যাকবোর্ড
শরীর ও স্বাস্থ্য
বিশেষ নিবন্ধ
সিনেমা
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
আজকের দিনে
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
mesh

উচ্চশিক্ষায় নামী স্বদেশি/ বিদেশি প্রতিষ্ঠানে সুযোগ পেতে পারেন। স্ত্রীর স্বাস্থ্য বিষয়ে চিন্তা। কর্মে অগ্রগতি।...

বিশদ...

এখনকার দর
ক্রয়মূল্যবিক্রয়মূল্য
ডলার ৮২.৫৬ টাকা৮৪.৩০ টাকা
পাউন্ড১০৪.৩৩ টাকা১০৭.৮১ টাকা
ইউরো৮৮.০৪ টাকা৯১.১৭ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
*১০ লক্ষ টাকা কম লেনদেনের ক্ষেত্রে
দিন পঞ্জিকা