বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
রাজ্য
 

নয়া সরকারের কাজ শুরুর নির্দেশ, লোকদেখানো আত্মবিশ্বাসী প্রধানমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিনিধি, নয়াদিল্লি: সাম্প্রতিককালে যত সভা করছেন, তার প্রতিটাতেই নিয়ম করে মোদি বলছেন, বিজেপি ফের ক্ষমতায় ফিরছে। এবং সেটা ৪০০ আসন পেয়েই। সভা-সমাবেশে নিয়ম করে মোদি ঘোষণা করছেন, ক্ষমতাসীন হয়ে তিনি এমন এক উন্নত ভারত গড়বেন যেটা হাজার বছর থেকে যাবে। সেই ভাবনাই তিনি কার্যকর করছেন। মোদি নিজেও জানেন, ভোটে জয় যতটা সহজ বলা যাচ্ছে, কাজটা ঠিক ততটাই কঠিন। কিন্তু এই ডোন্ট কেয়ার মনোভাবটা তিনি দেখিয়ে যাচ্ছেন। কেন? আসলে নিজের এই আত্মবিশ্বাস তিনি ভোটারদের মনে সুচারুভাবে প্রবেশ করিয়ে দিতে চাইছেন। যাতে সাধারণ ভোটাররা ধরেই নেন, এবারও ফিরছেন মোদি।
ভোটে কবে হবে এখনও ঘোষণা হয়নি। ফলাফল কী হবে, সেটাও জানা যাবে মে মাসে। এরপর রাষ্ট্রপতি সংখ্যাগরিষ্ঠ অথবা একক বৃহত্তম দলকে সরকার গড়তে ডাকবেন। তারপর সরকার গঠন। কিন্তু এসবই মোদির কাছে নেহাৎ গণতান্ত্রিক ও সংসদীয় রীতি পালন। কারণ তিনি দেখাতে চাইছেন, সরকার গড়ার ব্যাপারে তিনি নিশ্চিত। আর তার প্রমাণ হল তৃতীয় বারের সরকার কী কী কাজ করবে, সেই রূপরেখাও তিনি তৈরি করতে শুরু করেছেন। নতুন সরকার আসার পর প্রথম তিন মাসে কী কী করা হবে তারই তালিকা তৈরি করছে প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর। সেই লক্ষ্যেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি নিজেই মন্ত্রীদের নির্দেশ দিয়ে বলেছেন, তৃতীয় বারের সরকারে আপনাদের মন্ত্রক প্রথম ১০০ দিনে এসে কী কী করবে সেই রিপোর্ট  তৈরি করে দিতে হবে। সাতদিনের মধ্যেই এই রিপোর্ট চেয়েছেন মোদি। শুধুই ১০০ দিনের মধ্যে কী কী প্ল্যান রয়েছে সেই তালিকা নয়। এরপর মার্চ মাসের মধ্যে দিতে হবে আগামী ৫ বছর মন্ত্রকগুলির রোডম্যাপ কী হবে সেই রিপোর্ট। মোদি মন্ত্রীদের একথাও বলেছেন, কে পরের সরকারের মন্ত্রী হবেন, তা নিয়ে ভাববেন না। গত পাঁচ বছর আপনাদের মন্ত্রকে কী কী কাজ হয়েছে এবং কোন কোন কাজ বাকি আছে তথা কী কী পরিকল্পনায় ছিল, কিন্তু কার্যকর করা হয়নি, সেগুলির সমন্বয়ে রিপোর্ট তৈরি করুন। প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর প্রত্যেক মন্ত্রকের পাঠানো রিপোর্ট পর্যালোচনা করে এখন থেকেই অর্থমন্ত্রকের কাছে প্রস্তাব পাঠাবে।  কথা বলবে নীতি আয়োগের সঙ্গেও। এভাবে মোদি দেখাতে চাইছেন যে, তিনি ভোটের জয়-পরাজয় অথবা আনুষ্ঠানিকভাবে ফলাফল প্রকাশের  জন্য অপেক্ষা করবেন না। কারণ সেক্ষেত্রে আবার তিন মাস সময় চলে যাবে। যুদ্ধকালীন তৎপরতায় তাঁর তৃতীয় সরকার কাজ করবে এবং তাই এখন থেকেই প্রাথমিক রূপরেখা তৈরি হয়ে থাকছে, এই বার্তা দিতে চাইছেন মোদি।
বেনারস হিন্দু বিশ্ববিদ্যালয়ে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী। শুক্রবার পিটিআইয়ের তোলা ছবি। 

24th     February,   2024
 
 
কলকাতা
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ