দেশ

দলা পাকিয়ে যাওয়া বগির চারদিকে শুধুই ধোঁয়া
অরূপ রায় (জখম যাত্রী)

বদরপুর (অসম) থেকে কাঞ্চনজঙ্ঘা এক্সপ্রেসে উঠেছিলাম। যাচ্ছিলাম বর্ধমান। আমরা ছিলাম পিছনের জেনারেল কামরায়। নিউ জলপাইগুড়ি স্টেশন থেকে ট্রেন একটু দেরিতে ছেড়েছিল। রাঙাপানির কাছে খুব আস্তে যাচ্ছিল। ভাবছিলাম, সিগন্যাল নেই হয়তো। হঠাৎ এক ঝটকায় সব তালগোল পাকিয়ে গেল। বিকট আওয়াজ। সব যাত্রী হুড়মুড়িয়ে পড়ছে একে অন্যের গায়ে। কোথায় গিয়ে পড়লাম, বোধ হল না। শুধু চোখের সামনেটা অন্ধকার হয়ে গেল। একটু ধাতস্থ হতে বুঝলাম, গোটা কামরাটাই দলা পাকিয়ে গিয়েছে। চারদিকে ধোঁয়া। কষ্ট হচ্ছিল শ্বাস নিতেও। 
বৃষ্টি ও মেঘলা আবহাওয়ায় এমনিতেই চারদিক অন্ধকার ছিল। দুর্ঘটনার পর লাইট নিভে যাওয়ায় প্রথমে কেউ বুঝতে পারেননি, কী হয়েছে। আতঙ্কিত যাত্রীরা তখন প্রবল আতঙ্কে চিত্কার করছেন। কামরার অন্যদিক থেকেও কানে আসছে গোঙানির আওয়াজ। মাথা কাজ করছিল না। ধাক্কা খেয়ে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা যাত্রীদের উপর দিয়েই অনেকে বাইরে বেরনোর পথ খুঁজছিলেন। এক শিশু অজ্ঞান হয়ে পড়ে ছিল। শরীরের বহু জায়গায় কেটে গিয়ে রক্ত ঝরছে। সহযাত্রীদের কারও মাথা ফেটেছে, কারও হাত, কারও পা। গল গল করে বেরিয়ে আসা রক্তে ভেসে যাচ্ছে কামরার মেঝে। জানালা, বাঙ্কের গায়েও রক্তের ছোপ। যন্ত্রণায় বুঝলাম, পা কেটে গিয়েছে আমারও। দুমড়ে যাওয়া কামরায় ঠাহর করতে পারছিলাম না, দরজাটা কোন দিকে। কোথা থেকে বেরব। অনেকক্ষণ পর স্থানীয়রা এসে আমাদের কয়েকজনকে কামরা থেকে টেনে-হিঁচড়ে বের করেন। বেরিয়ে দেখি, কাতারে কাতারে মানুষ। একে একে বের করে নিয়ে আসা হচ্ছে নিথর দেহ। কোনওমতে দাদাকে ফোন করে দুর্ঘটনার খবর দিলাম। মেডিক্যাল ক্যাম্পে নিয়ে গিয়ে চিকিত্সা করানো হয় আমাকে। তবে, স্থানীয়রা দ্রুত এগিয়ে না এলে অনেক প্রাণহানি হতো। আমাদের সঙ্গে কয়েকজন বয়স্ক যাত্রী ছিলেন। তাঁরা কেমন আছেন, কে জানে!
1Month ago
কলকাতা
রাজ্য
বিদেশ
খেলা
বিনোদন
ব্ল্যাকবোর্ড
শরীর ও স্বাস্থ্য
বিশেষ নিবন্ধ
সিনেমা
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
আজকের দিনে
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
mesh

পারিবারিক সম্পত্তি সংক্রান্ত আইনি কর্মে ব্যস্ততা। ব্যবসা সম্প্রসারণে অতিরিক্ত অর্থ বিনিয়োগের পরিকল্পনা।...

বিশদ...

এখনকার দর
ক্রয়মূল্যবিক্রয়মূল্য
ডলার৮২.৮৫ টাকা৮৪.৫৯ টাকা
পাউন্ড১০৬.৪৩ টাকা১০৯.৯৫ টাকা
ইউরো৮৯.৬৩ টাকা৯২.৭৮ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
*১০ লক্ষ টাকা কম লেনদেনের ক্ষেত্রে
দিন পঞ্জিকা