রাজ্য

ব্যাঙ্ক জবরদস্তি গ্রাহকের আধার নেওয়ায় বাড়ছে আর্থিক প্রতারণা,  রিজার্ভ ব্যাঙ্কের দ্বারস্থ সংগঠন

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: আঙুলের ছাপ বা বায়োমেট্রিকের মাধ্যমে আধারের সাহায্যে আর্থিক প্রতারণা চক্র সক্রিয় হয়েছে সর্বত্র। বহু মানুষ অভিযোগ করছেন, কাউকে ব্যাঙ্ক সংক্রান্ত কোনও তথ্য তাঁরা দেননি। অথচ আচমকাই তাঁদের অ্যাকাউন্ট থেকে গায়েব হয়ে যাচ্ছে টাকা। দেশজুড়ে যে প্রতারণা চক্র চলছে, তার প্রতিরোধে পদক্ষেপ করতে রিজার্ভ ব্যাঙ্কের (আরবিআই) কাছে আর্জি জানালেন ব্যাঙ্ক কর্তারাই। তাঁদের সংগঠন ‘ব্যাঙ্ক বাঁচাও দেশ বাঁচাও মঞ্চ’-এর তরফে পরামর্শ দেওয়া হয়েছে, আধরের মাধ্যমে অ্যাকাউন্ট খোলার নিয়মটি বন্ধ করা হোক। অ্যাকাউন্ট খোলার সময় ব্যাঙ্কগুলি জোর করে আধারের প্রতিলিপি নিচ্ছে। তাতে আরও বেশি করে প্রতারণার সুযোগ করে দেওয়া হচ্ছে। এমনকী যাঁরা কেওয়াইসি জমা করছেন, তাঁদেরও নথি বাবদ আধার দিতে বাধ্য করছে ব্যাঙ্ক। অথচ এখনও ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টের সঙ্গে আধার যোগ করা বাধ্যতামূলক হয়নি এদেশে। ব্যাঙ্কগুলি এই রাস্তা থেকে সরে আসুক, চান ব্যাঙ্ক কর্তারা। 
মঞ্চের যুগ্ম আহ্বায়ক সৌম্য দত্ত বলেন, ন্যাশনাল পেমেন্টস কর্পোরেশন অব ইন্ডিয়া আধারের মাধ্যমে যে পেমেন্ট পদ্ধতি চালু করেছে, তার সুযোগ নিয়েই এই প্রতারণা চক্র চলছে। পাশাপাশি আধার কর্তৃপক্ষ ইউনিক আইডেন্টিফিকেশন অথরিটি অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, আধারের সঙ্গে ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট লিঙ্ক করানো বাধ্যতামূলক নয়। কেওয়াসি সংক্রান্ত নথি জমা করার ক্ষেত্রে অন্যান্য নথির মতোই একটি নথি হিসেবে কাজ করে আধার। ঠিকানা বা অন্য কিছুর প্রমাণে আধার ছাড়া অন্য কোনও নথি ব্যবহার করতেই পারেন গ্রাহক। 
কিন্তু ব্যাঙ্কগুলি সেই রাস্তায় না হেঁটে গ্রাহককে একপ্রকার বাধ্য করছে আধার জমা করতে। ফলে যে প্রতারণা এখন হচ্ছে, তার দায় সরাসরি ব্যাঙ্কগুলির উপরেই বর্তায়। তাদের জন্য মানুষ সঙ্কটে পড়ছেন। যদি এখনই এই পদ্ধতি বন্ধ করা না হয়, তাহলে অজান্তেই আধারের মাধ্যমে পেমেন্টের ফাঁদে পড়বেন গ্রাহকরা। যেভাবে এম-আধারের মাধ্যমে আধার লক করার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে সর্বস্তরে, তা সব গ্রাহকের ক্ষেত্রে গ্রহণযোগ্য নাও হতে পারে, অভিমত সৌম্যবাবুর।

    
10Months ago
কলকাতা
দেশ
বিদেশ
খেলা
বিনোদন
ব্ল্যাকবোর্ড
শরীর ও স্বাস্থ্য
বিশেষ নিবন্ধ
সিনেমা
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
আজকের দিনে
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
mesh

গৃহ পরিবেশে হঠাৎ আসা চাপ থেকে মানসিক অস্থিরতা। ব্যবসা ভালো চলবে। অনুকূল আয় ভাগ্য।...

বিশদ...

এখনকার দর
ক্রয়মূল্যবিক্রয়মূল্য
ডলার ৮২.৭৬ টাকা৮৪.৫০ টাকা
পাউন্ড১০৭.০০ টাকা ১১০.৫২ টাকা
ইউরো৮৯.৮৮ টাকা৯৩.০৪ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
*১০ লক্ষ টাকা কম লেনদেনের ক্ষেত্রে
দিন পঞ্জিকা