কলকাতা

পার্ক স্ট্রিটে গুলি: কুখ্যাত সোনা গ্রেপ্তার ঝাড়খণ্ডে

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: মির্জা গালিব স্ট্রিট গুলি কাণ্ডে প্রধান অভিযুক্ত তথা একদা গব্বর-সঙ্গী মধ্য কলকাতার ‘ত্রাস’ সোনা ওরফে মহম্মদ ফাইমুদ্দিনকে বুধবার গ্রেপ্তার করল লালবাজার। কলকাতা পুলিসের গুন্ডাদমন শাখার গোয়েন্দারা বুধবার ঝাড়খণ্ডের গিরিডি থেকে গ্রেপ্তার করেছে সোনাকে। কলকাতা পুলিসের অতিরিক্ত পুলিস কমিশনার তথা ভারপ্রাপ্ত গোয়েন্দা প্রধান মুরলীধর শর্মা এই খবর জানিয়েছেন।
গোয়েন্দা বিভাগের এক সূত্র জানাচ্ছেন, বিহারের আদি বাসিন্দা সোনা গিরিডিতে এক আত্মীয়ের বাড়িতে লুকিয়ে ছিল।  গুন্ডাদমন শাখার গোয়েন্দারা প্রথমে তার দিল্লির বাড়িতে হানা দেন। কিন্তু সেখানে সোনাকে পাওয়া যায়নি। তবে দিল্লি থেকে গিরিডির ঠিকানা হাতে পান গোয়েন্দারা। এরপর মোবাইলের টাওয়ার লোকেশনের সূত্র ধরে ধানবাদ ও গিরিডিতে টিম পাঠায় লালবাজার। তাতেই আসে সাফল্য। 
তবে লালবাজার জানাচ্ছে, গোয়েন্দাদের শেষ মহূর্ত পর্যন্ত বারে বারে বিভ্রান্ত করে গিয়েছে সোনা। এরজন্য আধুনিক প্রযুক্তির সাহায্য নিয়েছিল সে। নিজের মোবাইল ফোনের সিমকার্ড খুলে, ওয়াই- ফাইয়ের সাহায্যে হোয়াটস অ্যাপ ব্যবহার করে পরিচিতদের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছিল। গোয়েন্দাদের দাবি, এই প্রদ্ধতিতে হোয়াটস অ্যাপ চালালে একজন গ্রাহকের ‘লাইভ’ অবস্থান পেতে কমপক্ষে ৫ ঘণ্টা সময় লেগে যায়। ততক্ষণে খুব সহজে একজন অপরাধী এক ডেরা থেকে অন্য ডেরায় পালিয়ে যেতে পারে।   
উল্লেখ্য, ১৪ জুন শুক্রবার রাতে কিড স্ট্রিট ও রফি আহমেদ কিদোয়াই রোডের সংযোগস্থলে বাইক নিয়ে যাওয়ার সময় তালতলার বাসিন্দা এখলাসের সঙ্গে বচসা বাঁধে সোনার। এরপরই দলবল নিয়ে সোনা ওই যুবককের লক্ষ্য করে গুলি চালায় বলে অভিযোগ। ঘটনার পর আসানসোল-ধানবাদ হয়ে সড়ক পথে সোনা ভিনরাজ্যে পালিয়ে যায়। 
নয়ের দশকের শেষ দিকে কলকাতার তিলজলা, তপসিয়া, পার্ক স্ট্রিট, নিউ মার্কেট, তালতলা, ধর্মতলা এলাকার ‘ত্রাস’ ছিল সোনা। মূলত তোলাবাজির অভিযোগ ছিল  গব্বর-সোনার গ্যাংয়ের বিরুদ্ধে। অন্যদিকে কুখ্যাত নাদিম, গুড্ডা, আরশাদ গোষ্ঠির সঙ্গে এলাকা দখলের লড়াই ছিল সোনা-গব্বরদের। অতীতে একাধিকবার নিউ মার্কেট, পার্ক স্ট্রিট থানার পাশাপাশি লালবাজারের গুন্ডাদমন শাখার গোয়েন্দাদের হাতে গ্রেপ্তার হয়েছিল এই সোনা। 
কিন্তু ২০০২ সালের পর সোনা আর গ্রেপ্তার হননি। ফলে এই প্রজন্মের গোয়েন্দাদের কেউই তাকে তেমনভাবে চেনেন না। অতীতে গুন্ডাদমন শাখায় কাজের সুবাদে এক প্রাক্তন গোয়েন্দা জানিয়েছেন, ‘বর্তমানে মূলত তিলজলা, তপসিয়া থানা এলাকায় বেআইনি নির্মাণে যুক্ত সোনা। সেই সুবাদে তিলজলা থানায় তার আনাগোনা রয়েছে। সোনার চোখের সমস্যা রয়েছে। চশমা ছাড়া চলে না। অত্যন্ত নিষ্ঠুর প্রকৃতির ছেলে। বাধা পেলে, গুলি চালাতেও  দ্বিধা করে না। এদিকে, ধৃত সোনাকে গিরিডি থেকে কলকাতায় আনা হচ্ছে। আজ বৃহস্পতিবার তাকে  ব্যাঙ্কশাল আদালতে হাজির করানোর কথা।
1Month ago
রাজ্য
দেশ
বিদেশ
খেলা
বিনোদন
ব্ল্যাকবোর্ড
শরীর ও স্বাস্থ্য
বিশেষ নিবন্ধ
সিনেমা
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
আজকের দিনে
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
mesh

পারিবারিক সম্পত্তি সংক্রান্ত আইনি কর্মে ব্যস্ততা। ব্যবসা সম্প্রসারণে অতিরিক্ত অর্থ বিনিয়োগের পরিকল্পনা।...

বিশদ...

এখনকার দর
ক্রয়মূল্যবিক্রয়মূল্য
ডলার৮২.৮৫ টাকা৮৪.৫৯ টাকা
পাউন্ড১০৬.৪৩ টাকা১০৯.৯৫ টাকা
ইউরো৮৯.৬৩ টাকা৯২.৭৮ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
*১০ লক্ষ টাকা কম লেনদেনের ক্ষেত্রে
দিন পঞ্জিকা