বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
চারুপমা
 

বারো হাতের রহস্যভেদে গার্গী

আসছে ১৪২৯। নতুন বাংলা বছর এখনও কতটা অর্থবহ? উৎসবের আমেজ, সাজগোজ ইত্যাদি নিয়ে গার্গী রায়চৌধুরী-র সঙ্গে নানা কথায় অন্বেষা দত্ত।  

অভিনয় জগতে তাঁকে আলাদা করে চেনাতে হয় না। গতকালই মুক্তি পেয়েছে তাঁর ছবি ‘মহানন্দা।’ অভিনয় ক্ষমতার জোরে অনেক দিন আগেই তিনি জায়গা করে নিয়েছেন মানুষের মনে। সেই গার্গী রায়চৌধুরী নিজের সাজেও যথেষ্ট স্বতন্ত্র। তিনি কীভাবে বজায় রাখেন বাঙালিয়ানা? নববর্ষের প্রাক্কালে কথা হল তাঁর সঙ্গে। 
গার্গী বললেন, ‘শাড়ির চেয়ে আকর্ষক পোশাক আর কিছুই হতে পারে না। আর বারো হাতের এই রহস্য দেবা না জানন্তি, কুত মনুষ্যা!’ 
বাংলা নববর্ষের গুরুত্ব কতটা রয়েছে তাঁর কাছে? অভিনেত্রীর মন্তব্য, ‘আমি আমার ব্যক্তিগত ভাবনাই বলতে পারি। এখনও বাংলা নববর্ষই আমাদের বাড়িতে উদযাপিত হয়। অর্থাৎ খাওয়াদাওয়া, নতুন পোশাক পরা, নতুন পোশাক অন্যদের দেওয়া— এসবই আছে। যত বয়সই হোক না কেন, পরিবার বন্ধুবান্ধব নিয়ে এভাবেই কাটাতে চাই। আমার কাছে বাংলা নববর্ষ অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ। আগেও ছিল এবং ভবিষ্যতেও থাকবে।’ এই প্রজন্মের কাছে কি এই ধরনের অনুষ্ঠান বা রীতি রেওয়াজ গুরুত্ব হারাচ্ছে? ‘মহানন্দা’-র নায়িকা বললেন, ‘আমার তা মনে হয় না। আমরা এখনকার প্রজন্মকে যতটা হেয় করি, ততটা বোধহয় নয়। কারণ সরস্বতী পুজোতেও তারা শাড়ি পরে, বাংলা নববর্ষও তাদের কাছে যথেষ্ট অর্থবহ। অন্তত আমার অভিজ্ঞতা তাই বলে।’ 
আর সব কিছুর মতোই সাজগোজে আপনি সবসময় এত অভিজাত কীভাবে? কীভাবেই বা যত্ন করেন নিজের? সিক্রেটটা আমাদের পাঠকরাও জানুক! একথা শুনে একরাশ হেসে গার্গী বললেন, ‘খুব সজাগভাবে সাজি তা তো নয়। আমার মনে হয় ভিতরের আমিটাই হয়তো সাজপোশাকে বেরিয়ে আসে। যে রংগুলো পছন্দ করি, সেগুলোই পরি। তাতে হয়তো অভিজাত সাজগোজ হয়ে যায়। আপনারা যেমন বলেন!’ আর নিজের যত্ন? ‘আমি যে প্রফেশনে আছি, তাতে নিজেকে মেনটেন করতেই হয়। বরাবর সেটা করেছি। সহজভাবেই মেনটেন করি। ভবিষ্যতেও তাই করব। একটা কথা ঠিক, মনের যত্ন নেওয়া অনেক বেশি জরুরি বলে আমার মনে হয়। রাগ হোক বা দুঃখ আমি ঘুমিয়ে পড়ি। মনে কোনও নেতিবাচক প্রভাব পড়তে দিই না। ভয়ানক কোনও চাপ এলেও সেটাকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিই। সেটাকে জয় করার একটা প্রবল ইচ্ছা হয়। সেটাই আমাকে জীবনে এগিয়ে যেতে সাহায্য করে। আর একটা জিনিস সবসময় মেনে চলি। সেটা হল বাইরের খাবার প্রায় খাই না। বাইরের খাবার আমার কাছে উৎসবের মতো, খেলেও খুবই কম খাওয়া হয়। বাড়ির রান্নাই আমার কাছে সেরা। শ্যুটিংয়ে গেলেও আমার আলাদা খাবার থাকে। আউটডোরে গেলে বেশ কিছু জিনিস নিয়ে যাই, সাধারণ খাবার রান্না করতে বলি। ফাস্ট ফুডও একেবারেই না। ডাবের জল খাই নিয়মিত। চিরকাল এগুলো মেনে এসেছি। আর সঙ্গে সহজসরল জীবনযাপন, এটাই ভালো থাকার উপায়। চাপ এলে লড়াই হবে, সেটা আমার কাছে আনন্দের। আলস্যে বসে থাকা কাজের কথা নয়।’ 
স্কিনের জন্য কিচ্ছু নয়? ‘খুব এটা মাখি সেটা মাখি, এসব করি না। আগে বাড়ির তৈরি জিনিসই হয়তো ব্যবহার করতাম। এখন সময়াভাবে অর্গ্যানিক জিনিস টুকটাক কিনি। তাও খুব কম। তবে মেকআপ তোলার জন্য আমি এখনও ভেসলিন এবং নারকেল তেল ব্যবহার করি। কোনও কেমিক্যাল নয়। অনেক বছর হয়ে গেল এই জগতে, আমি কোনও বাইরের জিনিস ব্যবহার করি না মেকআপ তোলার জন্য।’ তাঁর সৌন্দর্যের সিক্রেট কিন্তু খাওয়াদাওয়া আর ঘুমেই লুকিয়ে আছে। ‘ছ’-সাত ঘণ্টা নির্বিঘ্ন ঘুম আমার বাহ্যিক সৌন্দর্যের জন্য খুব দরকার। আর অভ্যন্তরীণ সৌন্দর্যের জন্য আমার চারপাশের পরিবেশ, বন্ধুবান্ধব আর পরিবারের সঙ্গে থাকতে পছন্দ করি,’ হেসে বললেন গার্গী।   
ছবি : সন্দীপ ঘোষ 

9th     April,   2022
কলকাতা
 
রাজ্য
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ