বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
অমৃতকথা
 

উপদেশ

মানুষের কাছে যে আচরণ তোমরা প্রত্যাশা কর, সেরূপ আচরণ তোমরা অপরের প্রতি করবে। এই হল বিধি ব্যবস্থার মূল কথা। যীশু এখানে সকল ধর্মের সার্বজনীন তত্ত্বের উপদেশ দিয়েছেন। এই হচ্ছে সনাতন রীতি এবং মনুষ্যসমাজে আচরণবিধি নিয়ামক। মহাভারতে অনুরূপ উপদেশের উল্লেখ আছে: ‘‘নিজের প্রতি যেমন ব্যবহার আশা কর অপরের প্রতি তেমন ব্যবহার করবে।’’ আমাদের জীবনের উদ্দেশ্য হচ্ছে ভগবানলাভ এবং সর্বভূতে ব্রহ্মদর্শন। এই লক্ষ্যকে কার্যে পরিণত করতে হলে আমাদের একত্বদর্শনের অভ্যাস করতে হবে। অপরের প্রতি আমাদের আচরণ এবং আমাদের প্রতি অপরের আচরণ একরূপ হলে ক্রমে আমাদের বোধের রূপান্তর হবে। তখন প্রকৃতপক্ষে আমরা বিশ্বের প্রতি অণুপরমাণুতে একই ভগবানের প্রকাশ দেখব এবং সর্বজীবে তিনি অধিষ্ঠিত জেনে সবাইকে ভালবাসব। শ্রীকৃষ্ণ অর্জুনকে বিশ্বপ্রেমের উপদেশ দিয়েছেন: ‘‘যিনি সকল জীবের সুখদুঃখকে নিজের সুখদুঃখের ন্যায় অনুভব করেন, আমার মতে তিনি সর্বশ্রেষ্ঠ যোগী।’’ কেউ কেউ মনে করেন যে ভগবদনুসন্ধানের জন্য সাধককে অপরের দুঃখ-কষ্টে উদাসীন হতে হবে; কিন্তু একথা সত্য নয়। আমাদের প্রেমভক্তি যতই ভগবানের প্রতি প্রবাহিত হবে ততই অপরের দুঃখকষ্ট আমাদের প্রাণে বাজবে এবং তাদের সাহায্যে আমরা উন্মুখ হব। আমাদের অনুভব হবে যে একই আত্মা যেমন আমাদের মধ্যে তেমনি অপরেরও মধ্যে। আমাদের সুখ যেন অপরের দুঃখের কারণ না হয়। আমরা যেন কখনও অপরের মর্মবেদনার হেতু না হই। মহারাজ বলতেন: ‘‘সাধনভজন কর, ধ্যানজপ কর। তখন দেখবে সকলের প্রতি সহানুভূতিতে তোমার হৃদয় প্রসারিত হচ্ছে।’’
এই শ্রেয়ের স্বার উন্মুক্ত করে প্রবেশ কর। কারণ ধ্বংসের পথ বিস্তৃত, স্বারও প্রশস্ত এবং অধিকাংশ লোক এই ভয়ংকর পথের পথিক।
আর শ্রেয়ের পথ অপ্রশস্ত, স্বারও সংকীর্ণ। এ পথ শেষ হয়েছে অমরত্বে। খুব কম লোকই এ পথের সন্ধান পায়। যীশু আমাদের সাবধান করে বলছেন যে ভগবানলাভ খুব সহজ নয়। দীর্ঘ সংগ্রামের ফলে মানুষ পবিত্রতা অর্জন করে। কঠ উপনিষদে রয়েছে: ‘‘মেধাবিগণ বলেন যে, ক্ষুরের তীক্ষ্ণীকৃত অগ্রভাগ অতিক্রম করা যেমন বিপদসঙ্কুল তেমনি এ পথ ভয়ংকর দুর্গম।’’ ঐ উপনিষদে আরও বলা হয়েছে, ‘‘ভগবান ইন্দ্রিয়সমূহকে বহির্মুখী করে সৃষ্টি করেছেন। তাই মানুষ বহির্বিষয় দর্শন করে। কোনও বিবেকী অমৃতত্বের অভিলাষী হয়ে ইন্দ্রিয়সমূহকে সংযত করে অন্তরাত্মাকে দর্শন করেন।’’ মানুষের স্বাভাবিক প্রবণতা হচ্ছে প্রশস্ত ইন্দ্রিয়ের দরজা দিয়ে বেরিয়ে জগতের ভোগসুখে মগ্ন হওয়া। আর আধ্যাত্মিক সাধনার কর্তব্য হচ্ছে জীবনের সমস্ত গতিকে বিপরীতমুখী করে শ্রেয়ের দ্বার দিয়ে অন্তর্জগতে প্রবাহিত করান।
স্বামী প্রভবানন্দের ‘বেদান্তের আলোকে খ্রিস্টের শৈলোপদেশ’ থেকে

12th     May,   2022
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ