বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
খেলা
 

পরবর্তী রাউন্ডে রোনাল্ডোর পর্তুগাল
পর্তুগাল-২           :        উরুগুয়ে-০
(ব্রুনো -২)
সোমনাথ বসু, দোহা

পাবলিক অ্যাড্রেস সিস্টেমে দুই দলের লাইন-আপ ঘোষিত হচ্ছে। নির্দিষ্ট সময়ে ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর নাম উচ্চারণ করা মাত্রই গর্জে উঠল লুসেইল স্টেডিয়ামের গ্যালারি। পরক্ষণে বিশাল জায়ান্ট স্ক্রিনে পর্তুগিজ মহাতারকা। হাততালি যেন আর শেষ হতেই চায় না। ম্যাচেও তিনি বল পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে সমর্থকদের গোলের আবদার প্রতিধ্বনিত হয়েছে আকাশচুম্বী চিৎকারে। যদিও এই ম্যাচে স্কোরশিটে তাঁর নাম ওঠেনি। ব্রুনো ফার্নান্দেজের জোড়া গোলে উরুগুয়কে ২-০ হারাল পর্তুগাল। তবে রোনাল্ডো গোল না পেলেও দল নক-আউটে পৌঁছনোয় খুশি তাঁর অনুরাগীরা। দুই ম্যাচে স্যান্টোস-ব্রিগেডের পয়েন্ট ৬। উরুগুয়ে দাঁড়িয়ে ১ পয়েন্টেই। 
২০০৬ বিশ্বকাপের পর কখনও গ্রুপ পর্বে টানা দু’টি ম্যাচ জেতেনি পর্তুগাল। সোমবার সেই ইতিহাস বদলে নক-আউটে জায়গা নিশ্চিত করাই লক্ষ্য ছিল রোনাল্ডোদের। পাশপাশি ছিল বদলার তাগিদও। চার বছর আগে রাশিয়া বিশ্বকাপের প্রি কোয়ার্টার-ফাইনালে পর্তুগালকে হারিয়েছিল উরুগুয়ে। সেই যন্ত্রণার ক্ষতে মলম দেওয়ার সুযোগও ছিল সিআরসেভেন-ব্রিগেডের। প্রথমার্ধে বল পজেশন এবং পাসিংয়ের নিরিখে বিপক্ষের থেকে অনেকটা এগিয়ে থাকলেও গোলের দেখা পায়নি ফার্নান্দো স্যান্টোসের দল। 
গ্রুপ-এইচ’এর গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে পর্তুগিজ কোচ ফার্নান্দো স্যান্টোস এদিন ওটাভিও, পেরেইরা ও গুয়েরেইরোর জায়গায় খেলান যথাক্রমে কার্ভালহো, পেপে এবং মেন্ডিসকে। অন্যদিকে, লুই সুয়ারেজকে বেঞ্চে রেখেছিলেন উরুগুয়ের কোচ ডিয়েগো আলোন্সো। ম্যাচের ১৬ মিনিটে দলকে এগিয়ে দেওয়ার সুযোগ পেয়েছিলেন ফেলিক্স। কিন্তু বক্সের বাইরে থেকে নেওয়া তাঁর জোরালো শট প্রতিপক্ষ রক্ষণে প্রতিহত হয়। ৩২ মিনিটে বক্সে ঢুকে পড়লেও জাল কাঁপাতে ব্যর্থ উরুগুয়ের বেন্টাঙ্কুর। 
দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে হঠাৎই এক ফুটবলপ্রেমী ঢুকে পড়েন মাঠে। নিরাপত্তারক্ষীদের তৎপরতায় তাঁকে দ্রুত বাইরে নিয়ে যাওয়া হয়। এরপর হোয়াও ফেলিক্সের শট উরুগুয়ের সাইড নেটে লাগে। ৫৪ মিনিটে লিড নেয় পর্তুগাল। বাঁদিক থেকে ব্রুনো’র সেন্টার লাফিয়ে ওঠা রোনাল্ডোর মাথার নাগাল এড়িয়ে জালে আশ্রয় নেয় (১-০)। পর্তুগিজ মহাতারকার হাবেভাবে প্রথমে মনে হয়েছিল এটি তাঁরই গোল। পরে ফিফা টুইটের মাধ্যমে জানায়, গোলদাতার নাম ব্রুনো। পিছিয়ে পড়ার পর বাধ্য হয়ে আক্রমণে তীব্রতা আনে উরুগুয়ে। ৭৫ মিনিটে গোমেজের শট পোস্টে লাগে। পরিবর্ত হিসেবে নামা সুয়ারেজের একটি প্রচেষ্টাও অল্পের জন্য লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়। সংযোজিত সময়ের তৃতীয় মিনিটে পেনাল্টি থেকে ব্যবধান বাড়ান ব্রুনো ফার্নান্ডেজ (২-০)।
পর্তুগাল: কোস্টা, কানসেলো, পেপে, ডিয়াজ, মেন্ডিস (গুয়েরেইরো), নেভেস (রাফায়েল), সিলভা, কার্ভালহো (পালিনহা), ব্রুনো, জোয়াও (নুনেস), রোনাল্ডো (র‌্যামোস)। 

29th     November,   2022
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
দেশ
 
বিদেশ
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ