বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
দক্ষিণবঙ্গ
 

অন্য যুবকের সঙ্গে ঘর বাঁধতে মুম্বই পাড়ি
ফিরলেও ঘরে নেননি স্বামী
পাইকরে আত্মঘাতী গৃহবধূ

সংবাদদাতা, রামপুরহাট: স্বামীকে ছেড়ে পাড়ার অন্য এক যুবকের সঙ্গে ঘর বাঁধতে চেয়েছিলেন গৃহবধূ। সেই আশায় তাঁর হাত ধরে মুম্বইও পালিয়ে যান। তিনদিন পর ওই যুবকের দাদা বধূকে বাপেরবাড়ি ফিরিয়ে দেন। কিন্তু স্ত্রীকে আর ফিরিয়ে নেননি স্বামী। এদিকে ওই বধূ যার সঙ্গে পালিয়েছিলেন, সেই যুবকও অন্যত্র বিয়ে করেন। বাপেরবাড়িতেও নিত্যদিনের গঞ্জনা সহ্য করতে না পেরে আত্মহত্যা করলেন পাইকরের ওই গৃহবধূ। মৃতার নাম দেবিকা মাল(২৪)। বাপেরবাড়ি পাইকর থানার হিয়াতনগর গ্রামে। গত মঙ্গলবার পরিবারের সদস্যরা তাঁকে কীটনাশক খাওয়া অবস্থায় নলহাটির তকিপুরের নার্সিংহোমে ভর্তি করেন। অবস্থার অবনতি হওয়ায় বুধবার বিকেলে তাঁকে রামপুরহাট মেডিক্যালে আনা হয়। সেখানেই রাতে তাঁর মৃত্যু হয়। 
পুলিস জানিয়েছে, ঘটনায় এখনও পর্যন্ত কোনও অভিযোগ দায়ের হয়নি। একটি অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা রুজু করে তদন্ত শুরু হয়েছে। 
পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, বছর সাতেক আগে দেবিকার সঙ্গে নলহাটির মেহেগ্রামের শ্রীধর মালের সম্বন্ধ করে বিয়ে হয়। বর্তমানে তাঁদের দুই সন্তান রয়েছে। মৃতার দাদা সহদেব মাল বলেন, ২০ দিন আগে দেবিকা ছেলেমেয়েদের নিয়ে বাপেরবাড়ি আসে। পরদিনই ছোট মেয়েকে নিয়ে হঠাৎই নিখোঁজ হয়ে যায়। অনেক খোঁজাখুঁজির পরও না পেয়ে থানায় নিখোঁজের ডায়েরি করি। পরে জানতে পারি, পাড়ারই এক যুবকের সঙ্গে ও মুম্বই পালিয়ে গিয়েছে। ওই যুবকের দাদা সেখানে রাজমিস্ত্রির কাজ করেন। তিনদিন পর তিনিই ওকে আমাদের বাড়ি ফিরিয়ে দিয়ে যান। এদিকে এভাবে অন্য যুবকের সঙ্গে পালিয়ে যাওয়ায় জামাই আর বোনকে ঘরে নিতে রাজি হয়নি। তাই সন্তানদের নিয়ে বোন আমাদের বাড়িতেই থাকছিল। ভেবেছিলাম, কয়েকদিন গেলে হয়তো সব ঠিক হয়ে যাবে। এরইমধ্যে খবর পাই, ১০দিন আগে পরিবারের চাপে ওই যুবক অন্যত্র বিয়ে করে। তারপরও বোন ওই যুবকের সঙ্গে মোবাইলে ঘনঘন কথা বলত, মেসেজ করত। মৃতার মামা উজ্জ্বল মাল বলেন, এত কিছু ঘটে যাওয়ার পরও ভাগনির শিক্ষা না হওয়ায় দিদি বকাবকি করে। যা হওয়ার হয়ে গিয়েছে। এখন দুই সন্তানের মুখের দিকে চেয়ে ওই যুবকের সঙ্গে সম্পর্ক ত্যাগ করার কথা বলেন। এনিয়ে মা-মেয়ের মধ্যে অশান্তিও হয়। পরে সবাই কাজে চলে গেলে ভাগনি কীটনাশক খেয়ে নেয়। সবাই বাড়ি ফিরে এলেও ও কীটনাশক খাওয়ার কথা জানায়নি। পরে বমি করায় বিষ খাওয়ার কথা জানায়। তড়িঘড়ি হাসপাতালেও ভর্তি করা হয়। কিন্তু শেষরক্ষা হল না।  পাইকরের হিয়াতনগর গ্রামে আত্মঘাতী গৃহবধূ।

12th     August,   2022
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ