বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
দক্ষিণবঙ্গ
 

বিবাহিত ছাত্রীদের শ্বশুরবাড়িতেও হাজির
হচ্ছেন শিক্ষিকারা, লক্ষ্য উপস্থিতি বৃদ্ধি

 

সংবাদদাতা, লালবাগ: নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণির পড়ুয়াদের জন্য স্কুল চালু হয়েছে দুই সপ্তাহ হতে চলল। অথচ স্কুলে পড়ুয়াদের উপস্থিতির সংখ্যা উল্লেখযোগ্যভাবে কম। এদিকে সামনেই মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিকের টেস্ট ও ফাইনাল পরীক্ষা। স্কুলছুট পড়ুয়াদের শিক্ষাঙ্গনে ফিরিয়ে আনতে লালবাগ গভর্নমেন্ট স্পনসর্ড গার্লস স্কুলের ১২ জন শিক্ষিকা তিনটি দলে বিভক্ত হয়ে ছাত্রীদের বাড়ি বাড়ি যেতে শুরু করেছেন। কেন তারা স্কুলে যাচ্ছে না তা জানার পাশাপাশি তাদের স্কুলে ফিরিয়ে আনতে ছাত্রী ও তাদের অভিভাবকদের বোঝাচ্ছেন। এমনকী স্কুল বন্ধ থাকাকালীন বিয়ে হয়ে যাওয়া ছাত্রীদের শ্বশুরবাড়ি গিয়েও তাদের আবার পড়াশোনা শুরু করতে উৎসাহিত করছেন। 
মুর্শিদাবাদ শহরে হাজারদুয়ারি প্যালেস মিউজিয়াম সংলগ্ন এলাকায় অবস্থিত লালবাগ গভর্নমেন্ট স্পনসর্ড গার্লস স্কুল। স্কুল সূত্রে জানা গিয়েছে, নবম থেকে দ্বাদশ এই চারটি শ্রেণিতে মোট ছাত্রী সংখ্যা ৫১৪ জন। স্কুল খোলার পরে দুই সপ্তাহ অতিক্রান্ত হতে চললেও উপস্থিতির সংখ্যা তিনশোর ঘরেই ঘোরাফেরা করছে। ছাত্রীদের এই উপস্থিতি স্কুলের শিক্ষিকাদের কপালে চিন্তার ভাঁজ ফেলেছে। পড়ুয়াদের উপস্থিতি বাড়াতে গত শুক্রবার থেকে বাড়ি বাড়ি যেতে শুরু করেছেন শিক্ষিকারা। ইতিমধ্যেই হাসনাবাদ, সব্জিকাটরা, বরফখানা, পিলখানা, কুঠিয়াপাড়া সহ বিভিন্ন এলাকায় স্কুলছুট পড়ুয়াদের বাড়ি গিয়ে অভিভাবকদের বুঝিয়ে তাদের সন্তানদের স্কুলে পাঠানোর আবেদন জানাচ্ছেন শিক্ষিকারা। স্কুল সূত্রে জানা গিয়েছে, নবম শ্রেণির তিনজন ছাত্রী পড়াশোনা ছেড়ে দিয়েছিল। বাড়ি গিয়ে অভিভাবকদের বুঝিয়ে তাদের রেজিষ্ট্রেশন করানো হয়েছে। স্কুলের এক শিক্ষিকা বলেন, দীর্ঘ কুড়ি মাস স্কুলের দরজা বন্ধ থাকায় বেশ কয়েকজন ছাত্রীর বিয়ে হওয়ায় তারা শ্বশুরবাড়িতে রয়েছে। সেখানকার ঠিকানা জোগাড় করে শ্বশুরবাড়ি গিয়ে স্বামী ও  শ্বশুরবাড়ির লোকেদের বুঝিয়ে স্কুলে পাঠানোর জন্য রাজি করানো হয়েছে। হাসনাবাদের বাসিন্দা এক অভিভাবক বলেন, পড়াশোনা বন্ধ ছিল। ভালো পাত্র জুটে যাওয়ায় মাস চারেক আগে মেয়ের বিয়ে দিয়েছি। স্কুলের দিদিরা এসে মেয়ের শ্বশুরবাড়ির ঠিকানা ও ফোন নম্বর নিয়ে গিয়েছেন। মেয়ের শ্বশুরবাড়ির লোকেরা পড়ালে আমার কোনও আপত্তি নেই। স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা মোনালিসা পালিত বলেন, স্কুল মুর্শিদাবাদ শহরে অবস্থিত হলেও অধিকাংশ ছাত্রী শহর সংলগ্ন এলাকা এবং পার্শ্ববর্তী গ্রামাঞ্চলে। স্কুল বন্ধ থাকার কারণে বাড়িতে থেকে অনেকে স্কুলের প্রতি আগ্রহ হারিয়ে ফেলেছে। স্কুলে আসার ক্ষেত্রে ছাত্রী ও তাদের অভিভাবকদের মধ্যে একটা অনীহা কাজ করছে। স্কুলে পড়ুয়াদের উপস্থিতি ১০০ শতাংশ করতে আমরা শিক্ষিকারা সবাই মিলে কোমর বেঁধে মাঠে নেমেছি। 

30th     November,   2021
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
 
হরিপদ
 
31st     May,   2021
30th     May,   2021