বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
দক্ষিণবঙ্গ
 

আজ ও কাল মেগা ভ্যাকসিনেশন
শিবির, বাড়ছে করোনা পরীক্ষাও

 

সংবাদদাতা, সিউড়ি: চলতি উৎসবের মরশুমে সিউড়ি সহ গোটা বীরভূমে করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে বলে দাবি জেলা স্বাস্থ্যদপ্তরের। কিন্তু তাদের উদ্বেগ বাড়াচ্ছে একশ্রেণির মানুষের অসচেতনতা। তাই দুর্গাপুজো শেষ হতেই করোনা ভ্যাকসিন দেওয়ার হার বাড়াতে চলেছে বীরভূমের দুই স্বাস্থ্যজেলা। এজন্য জেলাজুড়ে আজ, সোম ও কাল, মঙ্গলবার হতে চলেছে মেগা ভ্যাকসিন শিবির। সেইসঙ্গে বাড়ানো হচ্ছে করোনা পরীক্ষাও। পাশাপাশি কালীপুজো সহ অন্য পুজো মণ্ডপগুলিতেও করোনা নিয়ে জনসচেতনতা বাড়াতে জোরদার প্রচার চালাবে স্বাস্থ্যদপ্তর। কারণ, উৎসবের দিনগুলি মানুষ বেপরোয়া হয়ে মাস্ক ছাড়াই বাড়ির বাইরে বের হচ্ছেন। এজন্য পুলিস, প্রশাসনকেও সর্তক করেছেন স্বাস্থ্যকর্তারা। উল্লেখ্য, শারদোৎসবের আগে করোনার তৃতীয় ঢেউ চোখ রাঙিয়েছে। কিন্তু উৎসবের পর বীরভূমের দুই স্বাস্থ্যজেলা রামপুরহাট ও বীরভূমে করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে থাকায় জেলা স্বাস্থ্যদপ্তর বেশ কিছুটা স্বস্তিতে। চিকিৎসক মহলের আশঙ্কা, পুজোর পর করোনা পরীক্ষা বৃদ্ধি পেলে সংক্রমণ উদ্বেগ বাড়াতে পারে। আগামী ১৫দিন পর পরিস্থিতি বোঝা যাবে। তবে পরিস্থিতি যাতে নতুন করে ভয়াবহ আকার না নেয় সেজন্য রামপুরহাট স্বাস্থ্যজেলার উদ্যোগে সোমবার ও মঙ্গলবার এলাকার আটটি ব্লক এবং দু’টি পুরসভা এলাকায় মেগা ভ্যাকসিনেশন শিবির করছে স্বাস্থ্যদপ্তর। সেই সঙ্গে প্রতিটি স্বাস্থ্যকেন্দ্রে করোনা পরীক্ষার পরিমাণও বাড়ানো হবে বলে জানা গিয়েছে। রামপুরহাট স্বাস্থ্যজেলা সূত্রে জানা গিয়েছে, পুজোর চারদিনে আট থেকে ন’জন নতুন করে করোনা সংক্রমিত হয়েছে। এঁদের বেশিরভাগই নিজেদের বাড়িতে থেকে চিকিৎসা চালাচ্ছেন। মাত্র একজন রামপুরহাট মেডিক্যাল কলেজে ভর্তি হয়েছেন। তিনি বর্তমানে বিপন্মুক্ত বলে হাসপাতালের দাবি। এই স্বাস্থ্যজেলায় সাবালকদের ৮০শতাংশের কাছাকাছি ভ্যাকসিন পেয়ে গিয়েছেন। বাকিদের জন্যই ওই দু’দিন মেগা ভ্যাকসিনেশন ক্যাম্প হতে চলেছে। এই দু’দিনে এই স্বাস্থ্যজেলায় প্রায় ৪০হাজারের বেশি মানুষকে ভ্যাকসিন দেওয়ার লক্ষ্যমাত্রা নিয়েছে স্বাস্থ্যদপ্তর। চিকিৎসক মহলের মতে, পুজোয় বহু মানুষের মধ্যে করোনার লক্ষ্মণ দেখা দিলেও উৎসব আনন্দ মাটি হওয়ার ভয়ে অনেকেই পরীক্ষা করাননি। কিন্তু এবার করোনার সামান্য লক্ষ্মণ দেখা দিলেই পরীক্ষার ব্যাপারে জোর দেওয়া হবে বলে রামপুরহাট স্বাস্থ্যজেলার মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক রবীন্দ্রনাথ প্রধান জানান। বীরভূম স্বাস্থ্যজেলার দুই মহকুমা সিউড়ি ও বোলপুরের মোট ১১টি ব্লক ও চারটি পুরসভা এলাকার বড় থেকে ছোট সবকটি স্বাস্থ্যকেন্দ্রে সোম ও মঙ্গলবার ভ্যাকসিন দেওয়া হবে। একইসঙ্গে বাড়ানো হচ্ছে করোনা পরীক্ষার হারও। এই জেলার মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক হিমাদ্রি আড়ি বলেন, পুজোর মধ্যে করোনার সংক্রমণ নেই বললেই চলে। তবে এখনই কিছু বোঝা যাচ্ছে না। করোনার পরীক্ষা বাড়ানোর ১৫ দিন পর পরিস্থিতি কোন দিকে যাচ্ছে তা বোঝা যাবে। পুজোর পর থেকেই জেলাজুড়ে সোম ও মঙ্গলবার দু’দিনের মেগা ভ্যাকসিন শিবির চালু করছি। বাড়ানো হচ্ছে পরীক্ষার হারও।

18th     October,   2021
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
 
হরিপদ
 
31st     May,   2021
30th     May,   2021