বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
দক্ষিণবঙ্গ
 

এই প্রথম বাঘমুণ্ডি পঞ্চায়েত
সমিতির ক্ষমতায় তৃণমূল কং
কয়েকদিন আগে অপসারিত হন বিজেপি সভাপতি

সংবাদদাতা, পুরুলিয়া: এই প্রথমবার বাঘমুণ্ডি পঞ্চায়েত সমিতিতে ক্ষমতায় এল তৃণমূল কংগ্রেস। স্বাভাবিকভাবেই উচ্ছ্বাসে ফেটে পড়েন তৃণমূলের নেতা কর্মীরা। সবুজ আবির খেলে ও বাজি ফাটিয়ে তাঁরা কার্যত বিজয় উৎসবে মেতে ওঠেন। গত পঞ্চায়েত নির্বাচনে কংগ্রেস ও বিজেপি মিলিতভাবে এই সমিতির বোর্ড গঠন করেছিল। সম্প্রতি অনাস্থায় অপসারিত হন পঞ্চায়েত সমিতির বিজেপি সভাপতি কার্তিক চালক। বুধবার নতুন সভাপতি নির্বাচন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়। গত বোর্ডের সহ সভাপতি ক্ষুদিরাম কৈবর্ত্য সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন। সম্প্রতি তিনি কংগ্রেস ছেড়ে তৃণমূলে যোগদান করেছিলেন।
ব্লক প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, বাঘমুণ্ডি পঞ্চায়েত সমিতির মোট আসন ২১টি। গত নির্বাচনে তৃণমূল ছ’টি, কংগ্রেস পাঁচটি, বিজেপি ন’টি এবং ফরওয়ার্ড ব্লক একটি আসন পায়। বিজেপি ও কংগ্রেস জোট বেঁধে পঞ্চায়েত সমিতির বোর্ড দখল করে। পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি হন বিজেপির কার্তিক চালক। সহ সভাপতি হন কংগ্রেসের ক্ষুদিরাম কৈবর্ত্য। পরে বিজেপির একজন সদস্য মারা যান। এরই মধ্যে বিধানসভা নির্বাচনে বাঘমুণ্ডি কেন্দ্রে তৃণমূল জয়লাভ করার পর ঝালদা এবং বাঘমুণ্ডিতে বিরোধী শিবিরে ক্রমাগত ভাঙন ধরতে থাকে। সম্প্রতি বাঘমুণ্ডি পঞ্চায়েত সমিতির সহ-সভাপতি ক্ষুদিরামবাবু সহ কংগ্রেসের তিনজন এবং বিজেপির তিনজন সদস্য তৃণমূলে যোগদান করেন। তারপরই বিজেপির সভাপতি কার্তিক চালকের বিরুদ্ধে অনস্থা প্রস্তাব আনে তৃণমূল। তলবি সভায় অপসারিত হন সভাপতি। বুধবার নতুন সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন ক্ষুদিরামবাবু।
পঞ্চায়েত সমিতি সূত্রে জানা গিয়েছে, বর্তমানে মোট ২০ জন সদস্যের মধ্যে  এদিন ক্ষুদিরামবাবুর পক্ষে ভোট দেন ১৩ জন এবং বিজেপির কার্তিক চালকের পক্ষে ভোট দেন মাত্র চারজন। কংগ্রেসের দু’জন এবং ফরওয়ার্ড ব্লকের একজন সদস্য এদিন ভোটাভুটিতে উপস্থিত ছিলেন না। প্রথমবারের জন্য বাঘমুণ্ডি পঞ্চায়েত সমিতি দখল করতে পেরে উচ্ছ্বাস চেপে রাখতে পারেননি তৃণমূল নেতা-কর্মীরা। সবুজ আবির খেলা হয়। তাতে শামিল হন বাঘমুণ্ডির তৃণমূল বিধায়ক সুশান্ত মাহাতও। বাজিও ফাটানো হয়।
ক্ষুদিরামবাবু বলেন, আগে সহ-সভাপতির দায়িত্বে থাকলেও কাজ করার তেমন সুযোগ ছিল না। এবার তৃণমূল এককভাবে বোর্ড গঠন করায় এলাকার রাস্তাঘাট সহ অন্যান্য উন্নয়ন কাজে সবচেয়ে বেশি জোর দেওয়া হবে।
বাঘমুণ্ডি ব্লক তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি কাশীনাথ মাঝি বলেন, এবারই প্রথম বাঘমুণ্ডি থেকে আমাদের দলের বিধায়ক হয়েছেন। তারপর থেকেই গ্রাম পঞ্চায়েত ও পঞ্চায়েত সমিতির সদস্যদের অনেকেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উন্নয়নের কাজে শামিল হতে তৃণমূলে যোগ দেন। এলাকার সার্বিক উন্নয়নের কাজ ত্বরান্বিত হবে।
বাঘমুণ্ডির তৃণমূল বিধায়ক বলেন, কংগ্রেস ও বিজেপি অশুভ আঁতাত করে এতদিন পঞ্চায়েত সমিতিতে ক্ষমতায় ছিল। মুখ্যমন্ত্রীর বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজের ক্ষেত্রে পঞ্চায়েত সমিতির ওই অশুভ আঁতাত  বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছিল। তৃণমূলের একক বোর্ড গঠন হওয়ায় এলাকার উন্নয়নের কাজ দ্রুতগতিতে করা হবে। সাধারণ মানুষের পাশে সব রকমভাবে থাকবে তৃণমূল পরিচালিত পঞ্চায়েত সমিতি।
বাঘমুণ্ডি বিধানসভার বিজেপির কনভেনর জগদীশ কুমার বলেন, আমাদের দলের কিছু সদস্য গদ্দারি করায় পঞ্চায়েত সমিতি হাতছাড়া হয়েছে। বর্তমানে বিজেপির সংখ্যাগরিষ্ঠতা না থাকায় তৃণমূল বোর্ড গঠন করেছে। নতুন সভাপতিকে স্বাগত জানাই। আগামী দিনে আমরা সংগঠন নিয়ে লড়াই করব।

23rd     September,   2021
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
 
হরিপদ
 
31st     May,   2021
30th     May,   2021