বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
উত্তরবঙ্গ
 

নাগরাকাটায় সীমান্তের পুজোয়
অঞ্জলি দিতে আসেন ভুটানিরা

সৈয়দ নিজাম, মালবাজার :  নাগরাকাটায় সীমান্তের দুর্গাপুজোয় অংশ নিতে মুখিয়ে থাকেন ভারত-ভুটান বর্ডার এলাকায় বসবাসরত দু’দেশের বাসিন্দা সহ পর্যটকরাও। স্থানীয় ব্লকের জিতি বর্ডারের এই পুজোর আয়োজন করে এলাকার সেভেন্টিসাইড নামে একটি ক্লাব। এই ক্লাবের বাজেট কম হলেও আকর্ষণ বিগবাজেটের পুজোগুলিকেও ছাপিয়ে যায়। কারণ, আর্থিক দিক থেকে সহযোগিতা করা ছাড়াও ভুটানিরা এই পুজোর সঙ্গে ওতপ্রোতভাবে জড়িয়ে থাকেন। রীতিমতো পুজোর নিয়ম মেনে উপোস করেন। অঞ্জলি দেন। সপ্তমী, অষ্ঠমী এবং দশমীতে তাঁরা আসেন। তবে নবমীর দিন ভুটানিদের জমায়েতের সংখ্যাটা ৩-৪ গুণ বেড়ে যায়। আসলে ওই দিন হয় মিলনমেলা। সঙ্গে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সেদিন ভুটানের দূরদুরান্ত বহু মানুষ হাজির হন মিলনমেলায়। এদেশের পাশাপাশি ভুটানিরাও তাঁদের বেশভূষা পরে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে অংশ নেন। পাশাপাশি তাঁদের দেশের তৈরি সামগ্রী ওই মেলায় বিক্রি করেন। তেমনই একানকার সামগ্রী কিনতে ভিড়ও করেন তাঁরা। নবমীর দিন সকলের জন্য ফল প্রসাদ বিতরণ করা হয়। সেইসঙ্গে পেটভরে খিচুরি খাওয়ানোর আয়োজনও থাকে। ভারত-ভুটান সীমান্তে পাহাড়ের কোলে প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ঘেরা এই এলাকার মিলনমেলা ঘিরে পর্যটকেরাও চরম আনন্দ উপভোগ করেন। সবমিলিয়ে আর ক’দিন পরেই ভারত-ভুটান সীমান্তের এই পুজোর দেখার অপেক্ষায় রয়েছে লাগোয়া দু‘দেশের বাসিন্দারা। সেভেন্টিসাইড পুজো কমিটির সদস্য ফিরোজ শাহ বলেন, আমাদের এই পুজো কম বাজেটের হলেও এর আকর্ষণ অনেক বিগবাজেটের পুজোকে পিছনে ফেলে দেয়। পুজোর পাশাপাশি দু’দেশের তৈরি সামগ্রী কেনার আকর্ষণও কম নয়। এসব কারণেই পর্যটকরাও আসতে শুরু করেছেন। এই পুজোয় এতটাই ভিড় হয় যে, পা রাখার জায়গা পাওয়া যায়না। লাটাগুড়ি রিসর্ট ওনার্স ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি দিবেন্দু দেব ও গোরুমারা টুরিজম ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি সোনা সরকার বলেন, জিতি বর্ডারের ওই পুজো আগে আমাদের নজরে ছিল না। গতবার থেকে পর্যটকরা যাওয়া শুরু করেছে। ভারত-ভুটান সীমান্ত এলাকার ওই পুজো এখন পর্যটকদের কাছে কম সময়ে জনপ্রিয়তা পেয়েছে। বহু পর্যটক যারা পুজোর মুখে আসবে, তাঁরা সকলেই আগে ভাগে জানিয়ে রেখেছেন জিতি বর্ডারের পুজোয় তাঁরা যাবেনই। আমরাও এখন প্যাকেজ টুরে ওই পুজোর নামটি জুড়ে দিয়েছি। 
প্রসঙ্গত, নাগরাকাটা শহর থেকে জিতি বর্ডারের দূরত্ব ১৫ কিমি। একেবারে ভুটান সীমান্ত ঘেঁষেই একটি মাঠে এই পুজো হয়। বিশেষ করে নবমীর দিন সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে ভুটানে এসডিও বিডিও,থানার ওসি ( দাসু) এরাও সেদিন আমন্ত্রিত থাকেন। ভুটানের, টেন্ডু, গোলা, পিঞ্জলি, চারঘরে, নৈনিতাল, চামুর্চি, সাংগে সহ দূরদুরান্ত থেকে ভুটানিরা আসেন। 

12th     October,   2021
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
 
হরিপদ
 
31st     May,   2021
30th     May,   2021