বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
বিদেশ
 

সৃষ্টিরহস্য উন্মোচনে আরও একধাপ
এলএইচসিতে হদিশ নয়া ৩
কণার, আশান্বিত বিজ্ঞানীরা

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: লার্জ হ্যাড্রন কলাইডার বা এলএইচসিতে একেবারে নতুন তিনটি কণার সন্ধান পেলেন ইউরোপিয়ান নিউক্লিয়ার রিসার্চ সেন্টারের (সার্ন) বিজ্ঞানীরা। ফলে ব্রহ্মাণ্ড সৃষ্টির রহস্য উন্মোচনে আরও একধাপ এগিয়ে যাওয়া সম্ভব হবে বলেই আশা তাঁদের। সুইৎজারল্যান্ডের জেনিভায় স্থাপিত এই অতিকায় যন্ত্রে এই প্রথম একেবারে নতুন তিনটি কণার অস্ত্বিস্ত একসঙ্গে মিলল।
বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, এই তিনটি কণা আসলে কোয়ার্ক। একাধিক কোয়ার্ক জোট বেঁধে পার্টিকল তৈরি করে। আর কয়েকটি পার্টিকল মিলে তৈরি করে প্রোটন, নিউট্রনের মতো হ্যাড্রন কণা যা থেকে পরমাণুর অস্তিত্ব তৈরি হয়। দেখা যাচ্ছে, নতুন পাওয়া কোয়ার্কগুলির গঠন অনুযায়ী সেগুলির দু’টি হল টেট্রাকোয়ার্ক। যা এই প্রথম পাওয়া গেল। অন্যটি পেন্টাকোয়ার্ক। সেটিও একেবারে নতুন ধরনের। সার্নের বিজ্ঞানী নিয়েলস টিউনিং এক বিবৃতিতে জানিয়েছেন, ১৯৫০ সালে এরকম একাধিক হ্যাড্রন কণা আবিষ্কার হতে শুরু করেছিল। তাই সেটিকে বলা হচ্ছিল পার্টিকল জু বা কণার চিড়িয়াখানা। এখন এই আবিষ্কারের পরে বলা যায়, আমরা দ্বিতীয় পার্টিকল জু তৈরি করে ফেলেছি। এই আবিষ্কার কণার গঠন, একে অপরের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার পদ্ধতি সম্পর্কে আরও গভীরে আলোকপাত করবে। এ ধরনের পরীক্ষা চালিয়ে গেলে আরও হ্যাড্রন কণা মিলবে বলে আমাদের আশা।
এলএইচসি হল প্রায় ২৭ কিমি লম্বা একটি টানেল আকৃতির যন্ত্র। সেটিকে তৈরি করা হয়েছে বিশ্বব্রহ্মাণ্ড সৃষ্টির রহস্য উন্মোচনের লক্ষ্যেই। কৃত্রিমভাবে সেখানে কণাস্রোত তৈরি করা হয়, যা অনেকটা বিগ ব্যাংয়ের ক্ষুদ্ররূপ। এর ফলেই আবিষ্কার হচ্ছে নতুন নতুন কণা। হিগস-বোসন কণার বাস্তবিক অস্তিত্ব বিজ্ঞানীদের সামনে আনার ক্ষেত্রেও এলএইচসির সর্বাধিক ভূমিকা রয়েছে। -ফাইল চিত্র

7th     July,   2022
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
দেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ