বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
দেশ
 

গুজরাতে প্রথম দফার ভোট শান্তিতেই
ভোটের লড়াই ‘জাদেজা বনাম জাদেজা’ নয়, দাবি পরিবারের

জামনগর: ক্রিকেটার রবীন্দ্র জাদেজার স্ত্রী রিভাবা বিজেপি প্রার্থী। কিন্তু প্রতিপক্ষ শিবিরে শ্বশুর। ভ্রাতৃবধূর বিরুদ্ধে টানা প্রচার চালিয়ে গিয়েছেন ননদ তথা কংগ্রেস নেত্রী নয়নাবা জাদেজাও।  বৃহস্পতিবার গুজরাতে বিধানসভার প্রথম দফার নির্বাচনে জোর পারিবারিক টক্করের সাক্ষী থাকল জামনগর। তবে নয়নাবা এই লড়াইকে ‘জাদেজা বনাম জাদেজা’ হিসেবে মানতে নারাজ। রবীন্দ্র জাদেজার দিদি বলেছেন,  রাজনৈতিক মতাদর্শের এই লড়াইয়ের প্রভাব পারিবারিক সম্পর্কে পড়ার কোনও প্রশ্ন নেই। একই মত প্রকাশ করেছেন রিভাবাও। তিনি বলেছেন, একই পরিবারের সদস্যদের মধ্যে মতাদর্শগত পার্থক্য থাকতেই পারে। এতে কোনও সমস্যা নেই। 
 রিভাবা উত্তর জামনগর কেন্দ্রে বিজেপি প্রার্থী। কিন্তু, তাঁর  শ্বশুর অনিরুদ্ধ সিং জাদেজা এবং ননদ ভোটে জোরকদমে প্রচার করছেন কংগ্রেসের হয়ে। গুজরাত বিধানসভার ১৮২টি আসনের মধ্যে এদিন প্রথম দফার নির্বাচনে ভোটগ্রহণ হল ১৯টি জেলার ৮৯টি আসনে।  এদিন রিভাবা ভোট দিলেন রাজকোটে। অন্যদিকে, রবীন্দ্র জাদেজা, অনিরুদ্ধ সিং, নয়নাবারা ভোট দিলেন জামনগরে। ভোট দেওয়ার পর নয়নাবা বলেন, ‘পাঁচ বছর পর মানুষ সরকার বদলের সুযোগ পেয়েছে। বিজেপি এতদিন মিথ্যা প্রতিশ্রুতি দিয়ে এসেছে। কিন্তু, বাস্তবে কিছুই হয়নি।’ তাঁর অভিযোগ, ‘শিক্ষা ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে। মুদ্রাস্ফীতির হার মারাত্মক। মানুষ বুঝতে পারছে, রাজ্যে বিজেপি ফের ক্ষমতায় এলে দুর্ভোগ আরও বাড়বে। তাই, সরকার বদল করা প্রয়োজন।’ কিন্তু, কংগ্রেসের প্রতিদ্বন্দ্বী তো তাঁরই ভাইয়ের স্ত্রী। এতে কী পারিবারিক সম্পর্কে প্রভাব পড়বে? এই প্রশ্নের  উত্তরে তিনি বলেছেন, ‘তা হতে যাবে কেন? জামনগরে এই ধরনের ঘটনা আগেও ঘটেছে। মতাদর্শের এই লড়াইয়ে প্রত্যেকে নিজের ১০০ শতাংশ উজাড় করে দেবে। মানুষ তারপর সেরাকেই বেছে নেবে।’ তিনি আরও বলেছেন, ‘রিভাবা আমার রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ ঠিকই। কিন্তু, ভ্রাতৃবধূ হিসেবে অত্যন্ত ভালো। আমাদের পরিবারে প্রত্যেকেরই ব্যক্তি স্বাধীনতা রয়েছে। তাই, যার যাকে খুশি সে তাকে সমর্থন করতেই পারে। এ নিয়ে কোনও সমস্যা নেই। রাজনীতির বিষয়টি রাজনীতির গণ্ডির মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকবে। আর পারিবারিক বিষয়টি একান্তই পারিবারিক।’ অনিরুদ্ধও বলেছেন, দল আর বাড়ি আলাদা। 
এদিন সকাল আটটা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয়। নির্বাচন কমিশন সূত্রে জানা গিয়েছে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত ভোট পড়েছে ৫৯.২৪ শতাংশ। মোটামুটি শান্তিপূর্ণ ও নির্বিঘ্নে ভোট গ্রহন সম্পন্ন হয়েছে।  গুজরাতে দ্বিতীয় পর্যায়ের (বাকি ৯৩টি আসনে) নির্বাচন হবে ৫ ডিসেম্বর। ভোট গণনা ৮ ডিসেম্বর। 

2nd     December,   2022
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ