বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
দেশ
 

ব্যক্তিগত তথ্য থার্ড পার্টিকে দিতে চলেছে
রেল, গোপনীয়তা রক্ষা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন

দিব্যেন্দু বিশ্বাস, নয়াদিল্লি: রেলযাত্রীদের তথ্য বিক্রি করে এক হাজার কোটি টাকা আদায়ের পরিকল্পনা করছে মোদি সরকার। রেলের ডিজিটাল ডেটা মনিটাইজেশনের লক্ষ্যে এবার কনসালট্যান্ট নিয়োগের সিদ্ধান্ত নিয়েছে মন্ত্রক। ইতিমধ্যেই এই ইস্যুতে দরপত্রও আহ্বান করেছে রেলমন্ত্রক। আশঙ্কা, এই সিদ্ধান্ত বাস্তবায়িত হলে রেলের বিভিন্ন অনলাইন পরিষেবা প্রাপকদের নাম, ঠিকানা, ই-মেল আইডি, লগ-ইন পাসওয়ার্ড, ফোন নম্বরের মতো গুরুত্বপূর্ণ তথ্য আর গোপন থাকবে না। কারণ যাত্রী পরিষেবাই হোক কিংবা ফ্রেট বুকিং, অনলাইনে গৃহীত যাবতীয় তথ্যই এবার চলে যাবে সংশ্লিষ্ট পরামর্শদাতা সংস্থার কাছে। অর্থাৎ, তৃতীয় পার্টির হাতে। মনিটাইজেশনের লক্ষ্যে সেই তথ্য নিয়ে করা হবে ‘মার্কেট স্টাডি’।
স্বাভাবিকভাবেই বিতর্কিত এই বিষয়টি নিয়ে সরকারিভাবে শুক্রবার রাত পর্যন্ত কোনও বিবৃতি দেয়নি রেলমন্ত্রক। তবে রেল সূত্রের খবর, বিষয়টি নিয়ে বিতর্ক তুঙ্গে ওঠায় শেষমেশ বিষয়টি নিয়ে পিছু হটতে পারে মন্ত্রক। যেহেতু ‘ডেটা প্রোটেকশন বিল’ প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়েছে এবং তা চূড়ান্ত হয়নি, সেই কারণ দেখিয়ে আপাতত উল্লিখিত সিদ্ধান্তও প্রত্যাহার করে নিতে পারে রেল। বাতিল করে দেওয়া হতে পারে সংশ্লিষ্ট টেন্ডার প্রক্রিয়াও। যদিও এদিন রাত পর্যন্ত তা বাতিল করার খবর পাওয়া যায়নি। রেলের এই সিদ্ধান্ত শেষমেশ বাস্তবায়িত হলে কাদের তথ্য অন্যের হাতে চলে যাবে? রেলের যাবতীয় অনলাইন পরিষেবা গ্রহণকারীদেরই ব্যক্তিগত তথ্য চুরি যেতে পারে। এমনকী পিআরএস কাউন্টারগুলিতে সংগৃহীত তথ্যও মার্কেট স্টাডির জন্য চলে যেতে পারে তৃতীয় পার্টির হাতে। আইআরসিটিসির ওয়েবসাইট থেকে টিকিট বুকিং তো আছেই।
রেলের নানা অ্যাপ প্রতিদিন ব্যবহার করেন হাজার হাজার মানুষ। সেক্ষেত্রে জার্নি ক্লাস, বয়সের মতো তথ্যই আর লুকানো থাকবে না বলে আশঙ্কা। এছাড়া ফ্রেট বুকিংয়ের সময় ‘কাস্টমারে’র যাবতীয় তথ্যও চলে যাওয়ার আশঙ্কা রয়েছে থার্ড পার্টির হাতে। তবে রেল সূত্রে দাবি করা হয়েছে, এর ফলে অনলাইন পরিষেবা গ্রহণকারীদের তথ্য চুরি যাওয়ার কোনও আশঙ্কা নেই। কোন ক্ষেত্রে রেলকে পরিষেবা প্রদানে আরও জোর দিতে হবে শুধুমাত্র তা খতিয়ে দেখবে পরামর্শদাতা সংস্থা। অর্থাৎ, রেলের ব্যবসায়িক কৌশলের ক্ষেত্রে তারা প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেবে? কিন্তু এক্ষেত্রে যাত্রীদের প্রদেয় ‘পার্সোনাল’ তথ্য কেন থার্ড পার্টি ঘাঁটাঘাঁটি করবে, তা নিয়ে প্রশ্ন থাকছেই। এবং তার সন্তোষজনক ব্যাখ্যা নেই রেল বোর্ডের কাছে।

20th     August,   2022
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ