বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
দেশ
 

কেদারনাথ মন্দিরে ভক্তদের ভিড়। বৃহস্পতিবার পিটিআইয়ের তোলা ছবি। 

মোদির প্রতিশ্রুতি সার, ইন্ডিয়া
গেটে বসলই না নেতাজির মূর্তি 

সন্দীপ স্বর্ণকার, নয়াদিল্লি: কথা ছিল স্বাধীনতার ৭৫তম বছরে ইন্ডিয়া গেটে বসবে নেতাজির মূর্তি। এই প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সেই মতো কালো গ্রানাইটে প্রস্তুত করা হয়েছিল ২৩ ফুটের মূর্তি। কিন্তু কথা রাখলেন না মোদি। হঠাৎই বাতিল হয়ে গেল উদ্বোধন কর্মসূচি। অর্থাৎ, আজ স্বাধীনতা দিবসে প্রকাশ্যে আসছে না আজাদ হিন্দ বাহিনীর সেনানায়কের পোশাকে নেতাজির পূর্ণাবয়ব মূর্তি। সোমবার সকালে লালকেল্লায় ভাষণের কর্মসূচি বহাল থাকলেও, নেতাজির মূর্তি উন্মোচন শেষ মুহূর্তে কেন বাতিল, তা নিয়ে হতবাক আপামর বাঙালি তথা দেশবাসী। সুভাষচন্দ্র বসুর ভাইপো প্রয়াত শিশিরকুমার বসুর পুত্র ইতিহাসবিদ সুগতবাবুর আক্ষেপ, ‘ন্যাশনাল গ্যালারি অব মডার্ন আর্ট (এনজিএমএ) আমাদের থেকে নেতাজির আসল ছবি চেয়েছিল। দিয়েওছিলাম। আশা ছিল ১৫ আগস্টেই তা উন্মোচন হবে। কিন্তু...।’ ভারতের স্বাধীনতা আন্দোলনের অন্যতম পথিকৃতের মূর্তি এই দিনটিতে বসলেই নেতাজিকে যোগ্য সম্মান দেওয়া হতো বলেই পরিবারের অভিমত।
১২ জুন শুরু হয়েছিল এই মূর্তি তৈরির কাজ। ৪০০ টন গ্রানাইট আনা হয় তেলেঙ্গানার খাম্মাম থেকে। ৪০ জন কারিগরের অক্লান্ত পরিশ্রমে কাজ সময়েই শেষ হয়ে গিয়েছিল। এনজিএমএর ওয়ার্কশপে গিয়ে দেখা গেল,  মূর্তি তৈরি হয়ে গেলেও আপাদমস্তক কালো প্লাস্টিকে ঢাকা, যাতে কেউ ছবি তুলতে না পারে। কিন্তু নির্দিষ্ট দিনে তা দেশবাসীর সামনে না আসায় খানিকটা হতাশ মূর্তি তৈরির প্রধান শিল্পী অরুণ যোগীরাজ। ‘বর্তমান’কে একান্ত সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন, ‘কাজ শেষ। কিন্তু আচমকাই জানতে পারি ১৫ আগস্ট মূর্তি বসছে না...।’ তবে এর ইতিবাচক দিকও তুলে ধরেছেন তিনি। বলেন, ‘হাতে আর একটু সময় পেয়েছি। আরও সূক্ষ্মভাবে সুভাষচন্দ্রের মুখের অংশ এবং আজাদ হিন্দ বাহিনীর টুপির কাজ করব। ফিনিশিং টাচ যাকে বলে।’ 
৮০ হাজার কিলো ওজনের এই মূর্তির উচ্চতা ২৩ ফুট। আর যে মঞ্চের উপর সেটি ইনস্টল করা হবে, সেটির উচ্চতা ৫ ফুট। সব মিলিয়ে ২৮ ফুট। ইন্ডিয়া গেটের ৩০০ মিটার পিছনে থাকা ছাউনি বা ক্যানোপিতে বসানোর কথা এটিকে। কিন্তু কবে বসবে মূর্তি, তা নিয়ে মুখ খুলতে নারাজ এনজিএমএর ডিজি আদিত্য গণনায়ক। পরিষ্কার বলেন, ‘আমি কিছু বলতে পারব না। কারণ, বলা মানা।’ গোটা বিষয়টিতে সরকারের ‘উপর মহল’ থেকেই মুখ খুলতে বারণ করা হয়েছে সবাইকে। তবে অত্যন্ত বিশ্বস্ত সূত্রে জানা গিয়েছে, আগামী ২১ অক্টোবর অথবা ২৩ জানুয়ারি, এই দু’টি তারিখ নিয়ে মোদি সরকারের শীর্ষস্তরে আলোচনা চলছে। তবে মূর্তি যখন তৈরিই, তখন অক্টোবরের দিনটি বেছে নেওয়া হবে বলে খবর। কারণ, ১৯৪৩ সালের ২১ অক্টোবরই প্রাদেশিক আদাজ হিন্দ সরকার গঠন করেছিলেন নেতাজি। বলেছিলেন, ‘আর্জি হুকুমত-এ-আজাদ হিন্দ’। স্বাধীনতার ৭৫তম বর্ষে যা পা দেবে ৮০ বছরে।  
তবে স্রেফ নেতাজির মূর্তি নয়, স্বাধীনতার ৭৫ বছর উপলক্ষে সংসদের ঐতিহাসিক সেন্ট্রাল হলেও হচ্ছে না কোনও বিশেষ অনুষ্ঠান। অথচ, ২৫ এবং ৫০ বছর পূর্তিতে চিত্রটা ছিল একেবারেই আলাদা। রজতজয়ন্তীতে ইন্দিরা গান্ধী প্রকাশ করেছিলেন বিশেষ ডাকটিকিট। আর সুবর্ণজয়ন্তীতে ১৪ আগস্ট মধ্যরাতে সেন্ট্রাল হলে ‘সারে জাঁহা সে আচ্ছা হিন্দোস্তাঁ হামারা’ গেয়ে স্বাধীনতার আবেগ উস্কে দিয়েছিলেন সুরসম্রাজ্ঞী লতা মঙ্গেশকর। কিন্তু এবার কিছুই হচ্ছে না, বরং অস্ত্র শুধু প্রচারের ঢক্কানিনাদ। ‘স্বাধীনতার অমৃত মহোৎসব’, ‘হর ঘর তেরঙ্গা’র মতো কর্মসূচির বুলি আউড়েই ক্ষান্ত মোদি সরকার। 

15th     August,   2022
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ