বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
দেশ
 

কুতুব মিনার সৌধই, উপাসনা স্থল নয়
আদালতকে জানাল এএসআই

নয়াদিল্লি, ২৪ মে: জ্ঞানবাপী মামলার মধ্যেই কুতুব মিনার নিয়ে দিল্লির এক আদালতে চাঞ্চল্যকর এক কথা জানাল আর্কিওলজিক্যাল সার্ভে অব ইন্ডিয়া। কুতুব মিনার যে উপাসনার জায়গা নয় তা স্পষ্টতই জানিয়ে দিল তারা। পাশাপাশি ঐতিহাসিক এই সৌধের কোনও রকম পরিবর্তন করার বিপক্ষে এএসআইয়ের বিশেষজ্ঞরা। আদালতে তাদের পক্ষ থেকে আরও জানানো হয়েছে, কুতুব মিনার আসলে একটি সৌধই। কেউই এর ওপর নিজের অধিকার দাবি করতে পারে না। এমনকি কাউকে এখানে কাউকে উপাসনার অনুমতিও দেওয়া যেতে পারে না বলেও জানানো হয়েছে। আজ, দিল্লির দায়রা আদালতে কুতুব মিনারে উপাসনার অনুমতি চেয়ে করা মামলার শুনানি ছিল। সেখানেই এই কথা জানানো হয়েছে এএসআইয়ের পক্ষ থেকে। উক্ত মামলায় দাবি করা হয়, কুতুব মিনার চত্ত্বরে বহু হিন্দু দেবদেবীর মূর্তির নিদর্শন ও অবশেষ রয়েছে। এই সব অবশেষগুলি আসলে কুতুব মিনারের হিন্দু ইতিহাসের প্রমাণ। তাই হিন্দুদের সেই সব মুর্তিগুলি পুজো করার অনুমতি দেওয়া হোক। কিন্তু কাশির জ্ঞানবাপী ও মথুরার মসজিদ নিয়ে বিতর্কের মধ্যেই কুতুব মিনার নিয়ে নতুন করে কোনও বিতর্ক চায়নি আর্কিওলজিকাল সোসাইটি। দিল্লির সাকেত আদালতে মূর্তিগুলি সংরক্ষণের জন্য পাল্টা আর্জিও জানায় তারা। ১৯৫৮ সালের আইন উল্লেখ করে তারা বলে, যেকোনও জীবন্ত সৌধকে কখনওই উপাসনাস্থল হিসেবে গ্রহণ করা যাবে না। যদিও তা মানতে নারাজ হিন্দু এবং জৈন পক্ষ। তাদের পক্ষে দাবি করা হয়েছে, বহু হিন্দু দেবদেবীর মন্দির এবং জৈনদেব তীর্থঙ্করের মন্দির ভেঙে এই চত্ত্বরে মসজিদ তৈরি করা হয়। কুতুব মিনারের প্রকৃত বয়স আসলে ১৬০০ বছরেরও বেশি। দেবতাদের সম্পত্তি চিরকাল দেবতাদেরই থাকে। তাই সেখানে হিন্দু ও জৈনদের উপাসনার অধিকার দেওয়া উচিৎ। এবার আদালত এই নিয়ে কী রায় দেয় সেটাই দেখার।

24th     May,   2022
 
 
কলকাতা
 
রাজ্য
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ