বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
রাজ্য
 

নিশীথ প্রামাণিকের নাম ঘোষণা হতেই বেসুরো অনন্ত মহারাজ

নিজস্ব প্রতিনিধি, শিলিগুড়ি ও কোচবিহার: এবার বেসুরো রাজ্যসভার সাংসদ অনন্ত মহারাজ। পদ্ম শিবির কোচবিহার লোকসভা কেন্দ্রের প্রার্থী পদে ফের নিশীথ প্রামাণিকের নাম ঘোষণা করতেই সোমবার সুর সপ্তমে তুলেছেন মহারাজ। অভিযোগ, তাঁকে ‘ডাস্টবিনে’ ফেলে রেখেছে বিজেপি। শুধু তাই নয়, কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের দাবি থেকে সরে আসার জন্য তাঁকে চাপ দেওয়া হয়েছে। যার প্রেক্ষিতে প্রয়োজনে সাংসদ পদ থেকে ইস্তফা দেওয়ার হুমকিও দিয়েছেন অনন্ত মহারাজ ওরফে নগেন রায়। লোকসভা ভোটের মুখে এ নিয়ে চরম অস্বস্তিতে গেরুয়া শিবির। ড্যামেজ কন্ট্রোলের রাস্তা খুঁজছে তারা। 
শনিবার বিজেপি প্রথম পর্যায়ের প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করে। এই অবস্থায় রবিবার কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের ফোন পান অনন্ত। সেজন্য সোমবার তিনি শিলিগুড়ি হয়ে দিল্লির উদ্দেশ্যে উড়ে যান। বাগডোগরায় বিমানে চাপার আগে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের বিরুদ্ধে একরাশ ক্ষোভ উগরে দেন অনন্ত। তিনি বলেন, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ ফোন করে তাঁকে ‘কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে’র দাবি থেকে সরে আসার নির্দেশ দিয়েছেন, এমনকী দিয়েছেন ধমকও। কিন্তু, আমি আমার আন্দোলন থেকে সরছি না। গ্রেটার কোচবিহারের মানুষের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করতে পারব না। তাতে যদি সাংসদ পদ থেকে ইস্তফা দিতে হয়, দেব। 
রাজবংশী এই নেতার অভিযোগ, বিজেপির কেউ তাঁর সঙ্গে কোনও যোগাযোগ করে না। সাংসদ করা হলেও, তাঁকে ডাস্টবিনে ফেলে রাখা হয়েছে। এবার ভোটের প্রচারে নামবেন কি না, তা নিয়েও সংশয় রয়েছে। তিনি বলেন, কোচবিহার লোকসভা কেন্দ্রের প্রার্থী নিয়ে দলের রাজ্য কিংবা কেন্দ্রীয় কমিটি এখনও পর্যন্ত অবগত করেনি। আমাকে পুরোপুরি অন্ধকারে রাখা হয়েছে। সাংসদ করার পরও দলের কোনও কার্যালয়ে আমাকে নিয়ে যাওয়া হয়নি। কোচবিহারে অনন্ত বলেন, যতক্ষণ আলো না দেখবেন, ততক্ষণ পা বাড়াবেন না। 
কোচবিহারের বাসিন্দা নগেন রায় অনন্ত মহারাজ নামেই পরিচিত। গত বছর তাঁকে রাজ্যসভার সাংসদ করে বিজেপি। একদা কোচবিহারের সাংসদ নিশীথের সঙ্গে তাঁর সুসম্পর্ক ছিল। হঠাৎ করে মহারাজ সুর চড়ানোয় বেকায়দায় পড়েছে বিজেপি শিবির। দলের জেলা সভাপতি সুকুমার রায় বলেন, আমরা অনন্ত মহারাজের সঙ্গে দেখা করব। তিনি আমাদের সাংসদ। তাঁর সঙ্গে যোগাযোগ করব না, এটা আবার হয় নাকি! আমাদের সাংসদ ভোট প্রচারে নামবেন বলেই আশা করছি। 
এদিকে, নির্বাচনের ঠিক আগ মুহূর্তে গ্রেটার নেতা অনন্ত মহারাজ যখন বেসুরো গাইছেন, তখন দ্য গ্রেটার কোচবিহার পিপলস অ্যাসোসিয়েশনের একটি সংগঠন সাংবাদিক সম্মেলন করে কেন্দ্র ও মহারাজের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছে। তার কিছুক্ষণ পরেই গ্রেটার কোচবিহার পিপলস অ্যাসোসিয়েশন (থার্ড ফ্রন্ট) নামে আরও একটি সংগঠন একইভাবে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে ক্ষোভ ব্যক্ত করেছে।

5th     March,   2024
 
 
কলকাতা
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ