বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
রাজ্য
 

 

আকাশে আজ রঙের খেলা…। বৃহস্পতিবার আন্দুলে তোলা দীপ্যমান সরকারের ছবি
 ​​​​​​​

কোচবিহারের প্রাক্তন পুলিস
সুপারকে জিজ্ঞাসাবাদ সিআইডির
শীতলকুচি 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: শীতলকুচির গুলিচালনা কাণ্ডে কোচবিহারের প্রাক্তন পুলিস সুপার দেবাশিস ধরকে শুক্রবার ভবানীভবনে ডেকে এনে জিজ্ঞাসাবাদ করল সিআইডি। ভোটের দিন ওই বুথে কী ঘটনা ঘটেছিল, তা তাঁর কাছে জানতে চাওয়া হয়। তাঁর বয়ানের সঙ্গে মাথাভাঙা থানার আইসি ও অন্যান্য পুলিস কর্মীর বয়ান মিলিয়ে দেখা হচ্ছে। তবে ঘণ্টা চারেক জিজ্ঞাসাবাদের পর তাঁকে ছেড়ে দেওয়া হয়। আগামী ২২ জুন তাঁকে ফের ভবানীভবনে আসতে বলা হয়েছে। একইসঙ্গে গুলিকাণ্ডে অভিযুক্ত কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানদের সিআইডি’র সামনে হাজির হতে সিআইএসএফের আইজিকে চিঠি পাঠানো হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। 
শীতলকুচির সেই ঘটনায় অভিযুক কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানরা এখনও হাজিরা দেননি। ফলে কোন পরিস্থিতির প্রেক্ষিতে তাঁরা গুলি চালিয়েছেন, তা বুঝতে পারছেন না তদন্তকারী অফিসাররা। তবে পারিপার্শ্বিক তথ্যপ্রমাণ ও স্থানীয় বাসিন্দাদের সঙ্গে কথা বলে অফিসাররা জেনেছেন, নিজেদের অস্তিত্ব বোঝাতেই তাঁরা গুলি চালিয়েছিলেন। তাঁদের বক্তব্যের সঙ্গে কোচবিহারের প্রাক্তন এসপি’র বয়ানে কোথায় ফাঁক থাকছে কি না,  তা জানার জন্যই দেবাশিস ধরকে ডেকে পাঠানো হয়। সেইমতো তিনি এদিন সকাল ১১টা নাগাদ ভবানীভবনে হাজির হন। তাঁকে প্রশ্ন করা হয়, তিনি কখন গুলি চালার খবর জানতে পারেন? কে বা কারা জানিয়েছিলেন সেই খবর? ওই বুথে গোলমালের কোনও খবর আগেই পাওয়া গিয়েছিল কি না? গুলিচালনার ঘটনা জানার পর তিনি কী করলেন? ঘটনাস্থলে কি গিয়েছিলেন? গুলি চালানোর আগে তাঁর কাছ থেকে অর্ডার নেওয়া হয়েছিল কি না? এমনই একাধিক প্রশ্ন উঠে আসে জিজ্ঞাসাবাদের সময়। সূত্রের খবর, কোচবিহারের প্রাক্তন এসপি জানিয়েছেন, সেখানে গোলমালের খবর পেয়ে কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ানরা যান। সঙ্গে ছিলেন রাজ্য পুলিসের ফোর্সও। তাঁকে জানানো হয়েছিল ফোর্সকে ঘিরে ফেলা হয়েছে। এরপর গুলি চালায় কেন্দ্রীয় বাহিনী। ঘটনার পর কী পরিস্থিতিতে গুলি চলেছিল, তা জানতে তিনি সেখানে কর্তব্যরত অফিসারদের থেকে খোঁজ নেন। কথা বলেন স্থানীয় থানার আইসি’র সঙ্গে। পরে নিজেও ঘটনাস্থলে যান বলে জানিয়েছেন। তবে গুলি চালানোর কোনও অর্ডার তাঁর কাছ থেকে নেওয়া হয়নি বলে প্রাক্তন এসপি দাবি করেছেন। এই নিয়ে ইতিমধ্যেই সেখানে উপস্থিত থাকা রাজ্য পুলিসের অফিসার ও নিচুতলার কর্মীদের বয়ান রেকর্ড করা হয়েছে। সেখানে তাঁদের বক্তব্যের সঙ্গে দেবাশিসবাবুর বক্তব্যে ফাঁক রয়েছে কি না, তা মিলিয়ে দেখার কাজ চলছে। যদি কারও বক্তব্যে অসঙ্গতি থাকে, সেক্ষেত্রে সংশ্লিষ্টকে আইনি জটিলতায় পড়তে হতে পারে বলে ইঙ্গিত মিলেছে।

19th     June,   2021
 
 
কলকাতা
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
কিংবদন্তী গৌতম
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
 
হরিপদ
 
31st     May,   2021
30th     May,   2021