বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
রাজ্য
 

বিজেপি করলে নিন্দা,
নিরপেক্ষ হলে স্যালুট
বাহিনী নিয়ে ফের সরব মমতা

অভিষেক পাল, বর্ধমান: ‘কেন্দ্রীয় বাহিনী নিরপেক্ষ হয়ে কাজ করলে আমি ওদের স্যালুট জানাব। কিন্তু যতক্ষণ ওরা বিজেপি করবে, ততক্ষণ বলে যাব।’ শুক্রবার পূর্ব বর্ধমানের জামালপুরে নির্বাচনী জনসভা থেকে ফের ভোটে কেন্দ্রীয় বাহিনীর নিরপেক্ষতা নিয়ে এভাবেই প্রশ্ন তুললেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিন জেলায় তিনটি জনসভায় মমতা ভাষণ দেন। প্রচণ্ড গরমের মধ্যেও প্রতিটি সভায় দলনেত্রীর বক্তব্য শোনার জন্য সকাল থেকে তৃণমূল কর্মী-সমর্থকদের উন্মাদনা নজর কেড়েছে। সভাগুলিতে উপচে পড়া ভিড় দেখে প্রার্থীরাও রীতিমতো চাঙ্গা। 
এদিন প্রথমে জামালপুরের তৃণমূল প্রার্থী অলোক মাঝি ও রায়নার শম্পা ধাড়ার সমর্থনে সেলিমাবাদ সিবি গ্রাউন্ডে জনসভা করেন তৃণমূল সুপ্রিমো। তারপর গন্তার ফুটবল মাঠে মন্তেশ্বরের তৃণমূল প্রার্থী সিদ্দিকুল্লা চৌধুরী এবং মেমারির মধুসূদন ভট্টাচার্যের সমর্থনে সভা। সবশেষে বর্ধমান-২ ব্লকের জোতরাম হাইস্কুল মাঠে বর্ধমান উত্তরের প্রার্থী নিশীথ মালিক ও দক্ষিণের প্রার্থী খোকন দাসের নির্বাচনী জনসভায় যোগ দেন। প্রতিটি সভাতেই শুরুর অনেক আগে ভিড় উপচে পড়ে। রাজ্য সরকারের একের পর এক উন্নয়নমূলক প্রকল্পের কথা জনগণকে স্মরণ করিয়ে দেওয়ার পাশাপাশি এদিন বিজেপিকেও তীব্র ভাষায় আক্রমণ করেন মমতা। বলেন, ‘বিজেপি গায়ের জোরে সবকিছু করছে। তোমরা যদি জিতবে, তাহলে আমাদের প্রার্থীদের মারছ কেন? ওদের কাজকর্ম দেখে মনে হচ্ছে, বাংলায় ৩৫৬ ধারা জারি করেছে। বিজেপি যা বলছে, ওরা তাই করছে।’
কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে আক্রমণ করে মমতা বলেন, ‘অমিত শাহ কত টাকা আপনার আছে? ভাবছেন, চিরদিন এভাবে চলে যাবে? কোটি কোটি টাকা বিলোচ্ছেন। অথচ কারও ৫০০ টাকা থাকলে আপনারা এজেন্সি পাঠিয়ে দিচ্ছেন। আপনাদের এত টাকা এল কোথা থেকে? আমি জানি, এসব বলার পর আপনারা আমাকে খুন করার প্ল্যান করবেন। তাতে আমার কিছু যায় আসে না। যতদিন বাঁচব, বাঘের বাচ্চার মতো লড়ব।’ এদিন নরমে গরমে মমতা বোঝান, তিনি শান্তিপূর্ণ ভোট চান। বলেন, ‘ওদের কাজ হিংসা করা, দাঙ্গা করা, মানুষকে ভয় দেখানো। ভয় পাবেন না। আমরা খেলব, বিজেপিকে মাঠের বাইরে বের করব। নিজেদের দ্বন্দ্ব ভুলে যান। সামনে বড় যুদ্ধ। বিজেপিকে একটা ভোটও নয়। বাংলাকে বাঁচান। বাংলা বাঁচলে, দেশ জিতবে।’
মমতা আরও বলেন, ‘বিজেপি ৪২০। লোককে চিট করা ছাড়া কিছু করে না। প্রধানমন্ত্রী এত উল্টোপাল্টা কথা বলেন, কিন্তু বিধিভঙ্গ হয় না। অমিত শাহ বললে হয় না। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জনগণের কাছে বক্তৃতা দিলেই হয়! আমাকে যত কেস দেবে, আমি তত দীর্ঘজীবী হব।’

10th     April,   2021

মুখ্যমন্ত্রীর ৪টি চিঠি নিয়ে মুখে কুলুপ
মমতাকে এড়িয়ে ডিএমদের সঙ্গে
কোভিড-বৈঠক ‘উদ্বিগ্ন’ মোদির

রাজ্যে রাজ্যে বাড়ছে সংক্রমণ এবং মৃত্যু। টিকা, অক্সিজেন, হাসপাতালে বেডের আকাল দেশজুড়ে। এই সঙ্কটকালে সার্বিক টিকাকরণ এবং অক্সিজেনের দাবিতে বারবার প্রধানমন্ত্রীর দ্বারস্থ হয়েছেন একাধিক অবিজেপি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীরা। এদিনও ১২ জন বিরোধী নেতা মিলিতভাবে চিঠি দিয়েছেন নরেন্দ্র মোদিকে। যদিও পত্রাঘাত পর্বে অন্যতম অবশ্যই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী বিগত কয়েকদিনে নরেন্দ্র মোদিকে চারটি চিঠি পাঠিয়েছেন। অথচ প্রধানমন্ত্রী উত্তর দেওয়ার প্রয়োজন অনুভব করেননি।

 
 
কলকাতা
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
কিংবদন্তী গৌতম
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
 
হরিপদ
 
12th     May,   2021