বর্তমান পত্রিকা : Bartaman Patrika | West Bengal's frontliner Newspaper | Latest Bengali News, এই মুহূর্তে বাংলা খবর
কলকাতা
 

বারাকপুরে বাড়িতে বিস্ফোরণ, জখম ২
ঘটনাস্থলে তদন্তে ফরেন্সিক দল

নিজস্ব প্রতিনিধি, বারাকপুর: ভয়াবহ বিস্ফোরণ। বিকট শব্দে কেঁপে উঠল এলাকা। বিস্ফোরণের তীব্রতা এতটাই যে, পাশের বাড়িতে আছাড় খেয়ে পড়ে জখম হয়েছেন দুই মহিলা। বুধবার সকালে বারাকপুরের কালিয়ানিবাস এলাকায় একটি বাড়িতে এই বিস্ফোরণের ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন স্থানীয়রা। প্রথমে গ্যাস সিলিন্ডার ফেটেছে বলে মনে করা হলেও পরে দেখা যায়, সেটি অক্ষত রয়েছে। তাই কীভাবে বিস্ফোরণ ঘটল, তা নিয়ে রহস্য দানা বেঁধেছে। যে ভাড়া বাড়িতে এই বিস্ফোরণ ঘটেছে, সেই ভাড়াটিয়াকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে পুলিস। তাঁর কথায় অসংলগ্নতা রয়েছে। বিস্ফোরণের কারণ জানতে ফরেন্সিক বিশেষজ্ঞদের খবর দেওয়া হয়েছে। রাজ্য গোয়েন্দা বাহিনীর একটি টিম এদিন ঘটনাস্থল ঘুরে গিয়েছে। এমনকী, এই বিস্ফোরণের গতিপ্রকৃতি নিয়ে এনআইএও খোঁজখবর করছে।
বারাকপুরের কালিয়ানিবাস এলাকায় জে আর আর রোডের ধারেই এই দোতলা বাড়ি। এই এলাকাটি টিটাগড় থানার অধীন। পুলিস সূত্রে জানা গিয়েছে, একতলায় আড়াই-তিন বছর ধরে ভাড়া রয়েছেন ইশাইয়া গিডলা নামে এক ব্যক্তি। বয়স পঞ্চাশের কাছাকাছি। আদি বাড়ি হায়দরাবাদে। তিনি একাই থাকতেন এখানে। এদিন সকাল সাড়ে ১০টা নাগাদ তাঁর ঘরেই বিস্ফোরণ হয়। তাঁর দু’টি রুমেই আগুন লেগে যায়। বাইরে আগুন ছড়িয়ে না পড়লেও অন্দরমহল সম্পূর্ণ পুড়ে গিয়েছে। বিস্ফোরণে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ছাদের একটি অংশও। ইশাইয়ার পাশের ঘরে অন্য ভাড়াটিয়ারা থাকেন। বিস্ফোরণের জেরে তাঁদের পরিবারের দু’জন মহিলা মেঝেতে ছিটকে পড়েন। গুরুতর জখম হয়েছেন তাঁরা। তাঁদের বারাকপুরের ডাঃ বি এন বসু হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ইশাইয়া সেই সময় বাথরুমে থাকায় তিনি অক্ষত ছিলেন।
ঘটনার পর সকলেই ভেবেছিলেন, গ্যাস সিলিন্ডার ফেটেই এই দুর্ঘটনা। কিন্তু, পুলিস ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখে, ঘরের ভিতর চার-চারটে গ্যাস সিলিন্ডার। সবকটিই অক্ষত। তাহলে বিস্ফোরণ হল কীভাবে? এই প্রশ্নকে ঘিরেই তৈরি হয়েছে রহস্য। দু’টি রুমের মাঝখানের দরজা বিস্ফোরণের ধাক্কায় ভেঙে গিয়েছে। স্থানীয়রা বলছেন, বিকট শব্দে আশপাশের বাড়িগুলিও কেঁপে উঠেছিল। সবাই দুরদার করে বেরিয়ে আসেন। দেখা যায়, ইশাইয়ার ঘরের জানালা দিয়ে আগুন বের হচ্ছে। তাঁদের দাবি, এই দক্ষিণী কখনও বলতেন শিক্ষকতা করেন, কখনও বলতেন ক্লার্কের কাজ করেন। আসলে যে কী করেন, তা কেউ জানে না। ঘটনার পর সাংবাদিকের প্রশ্নের উত্তরে ইশাইয়া বলেন, আমি চাকরির খোঁজে এখানে এসেছি। কীভাবে বিস্ফোরণ হয়েছে, তা জানি না। পুলিস তদন্তে জানতে পেরেছে, বহু আগে তিনি জামশেদপুরে একটি কারখানায় কাজ করতেন। তবে, ইদানীং কিছু করতেন না। পুলিস জানিয়েছে, যাঁরা জখম হয়েছেন, তাঁরা অভিযোগ দায়ের না করলেও স্বতঃপ্রণোদিতভাবে মামলা করা হবে। বারাকপুরের ডেপুটি পুলিস কমিশনার (সদর) আশিস মৌর্য বলেন, ওই বাড়িতে কীভাবে বিস্ফোরণ হয়েছে, তা এখনও স্পষ্ট নয়। ফরেন্সিক বিশেষজ্ঞদের রিপোর্ট পেলেই বিস্ফোরণের কারণ জানা যাবে। তদন্তের স্বার্থেই জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। 

21st     October,   2021
 
 
রাজ্য
 
দেশ
 
বিদেশ
 
খেলা
 
বিনোদন
 
আজকের দিনে
 
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
এখনকার দর
দিন পঞ্জিকা
 
শরীর ও স্বাস্থ্য
 
বিশেষ নিবন্ধ
 
সিনেমা
 
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
 
হরিপদ
 
31st     May,   2021
30th     May,   2021