Bartaman Patrika
চাষ আবাদ
 

বোরো মরশুমে ১ লক্ষ ১০ হাজার একর জমিতে নিঃশুল্ক জল দেবে সেচদপ্তর 

বিএনএ, শিলিগুড়ি: এবার বিনা মাশুলে জলপাইগুড়ি জেলায় একলক্ষ একরেরও বেশি বোরো চাষের জমিতে দেওয়া হবে সেচের জল। বুধবার সেচের জল বণ্টন নিয়ে প্রস্তুতি বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে সেচদপ্তরের তিস্তা ব্যারেজ প্রজেক্ট কর্তৃপক্ষ। তবে তিস্তা সেচ প্রকল্পের বহু শাখা ক্যানেল ও ফিল্ড চ্যানেলের অবস্থা বেহাল। বেশকিছু সেচ নালাও ভরাট হয়ে গিয়েছে। প্রায় একযুগ আগে সেগুলি সংস্কারের দাবি উঠলেও কাজের কাজ কিছু হয়নি বলে অভিযোগ। বিষয়টি খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছে তিস্তা ব্যারেজ কর্তৃপক্ষ। পাশাপাশি তারা সেচখাল, নালা ও ফিল্ড চ্যানেল রক্ষণাবেক্ষণ করতে ব্লক স্তরে বিশেষ কমিটি গঠনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।
সেচ দপ্তরের তিস্তা ব্যারেজ প্রজেক্টের চিফ ইঞ্জিনিয়ার প্রসিতকুমার পাত্র বলেন, আগামী ১০ জানুয়ারি থেকে ১০ মে পর্যন্ত চারটি ধাপে এক লক্ষের বেশি জমিতে সেচের জন্য জল বণ্টন করা হবে। এরজন্য কোনওরকম জলকর দিতে হবে না। এদিনের প্রস্তুতি বৈঠকে সর্বসম্মতিক্রমে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এছাড়া এদিনের বৈঠকে কিছু দাবি ও প্রস্তাব এসেছে। সেগুলি খতিয়ে দেখে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
আগামী জানুয়ারি মাস থেকে শুরু হবে বোরো চাষের মরশুম। আসন্ন বোরো চাষের মরশুমে বীজতলা তৈরি থেকে পাকা ধান কাটার আগে পর্যন্ত জমিতে সেচের জল দিতে উদ্যোগী হয়েছে সেচদপ্তরের তিস্তা ব্যারেজ প্রজেক্ট কর্তৃপক্ষ। এদিন শিলিগুড়ির সেবক রোডে সেচদপ্তরের অফিসে প্রজেক্ট কর্তৃপক্ষ একটি উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক করে। বৈঠকে তিস্তা ব্যারেজ প্রজেক্টের চিফ ইঞ্জিনিয়ার ছাড়াও ব্যারেজ প্রজেক্টের এগজিকিউটিভ ইঞ্জিনিয়ার প্রশান্ত দাস, জলপাইগুড়ি জেলা পরিষদের সভাধিপতি উত্তরা বর্মন, জেলা পরিষদের কৃষি কর্মাধ্যক্ষ গোবিন্দ রায়, রাজগঞ্জ পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি পূর্ণিমা রায় সহ কৃষিদপ্তরের আধিকারিকরা উপস্থিত ছিলেন। দীর্ঘক্ষণ ধরে চলা বৈঠকে সেচের জল বণ্টনের সময় সূচী নির্ধারণ করা হয়েছে।
সেচদপ্তর সূত্রের খবর, তিনটি সেচখালের মাধ্যমে জমি সেচের জল বণ্টন করা হয়। সংশ্লিষ্ট খালগুলির মধ্যে তিস্তা-মহানন্দা মেন খাল অন্যতম। দীর্ঘ ২৯ কিমি লম্বা এই খালের মাধ্যমে জলপাইগুড়ি সদর এবং রাজগঞ্জ ব্লকে সেচের জল বণ্টন করা হবে। এই ক্যানের উপর নির্ভরশিল প্রায় ৩২ হাজার ৯০০ হেক্টর জমি। এর বাইরে তিস্তা-জলঢাকা সেচখালের মাধ্যমে জল দেওয়া হবে মালবাজার ও ময়নাগুড়ি ব্লকে। প্রায় ২৭ কিমি লম্বা এই সেচখালের উপর নির্ভশীল প্রায় ৫৪০০ হেক্টর জমি। করতোয়া তালমা ব্যারেজ থেকে রাজগঞ্জ ব্লকে প্রায় ৬৩০০ হেক্টর জমিতে জল দেওয়া হবে।
তিস্তা ব্যারেজ প্রজেক্টের এক ইঞ্জিনিয়ার বলেন, আগামী ১০ জানুয়ারি থেকে সেচের জল বণ্টন শুরু হবে। প্রথম পর্যায়ে বোরো ধানের বীজতলা তৈরির জন্য জল দেওয়া হবে ৩০ জানুয়ারি পর্যন্ত। দ্বিতীয় ধাপে রোয়া বা চারা রোপন করতে ৯ থেকে ২৮ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত জল বণ্টন করা হবে। এভাবে মার্চ এবং এপ্রিল মাসে আরও দু’টি ধাপে জল বিলি করা হবে। প্রজেক্টের চিফ ইঞ্জিনিয়ার বলেন, সবমিলিয়ে এবার জলপাইগুড়ি জেলায় চারটি ব্লকের প্রায় ১ লক্ষ ১০ হাজার একর জমিতে সেচের জল বিলি করা হবে। এতে প্রচুর মৌজার কয়েক কয়েক হাজার কৃষক উপকৃত হবেন।
এদিনের বৈঠকে জলপাইগুড়ি জেলার সেচখালগুলির বেহাল অবস্থা নিয়ে সরব হন জেলা পরিষদের সভাধিপতি। বৈঠকের পর তিনি বলেন, দীর্ঘদিন ধরে রক্ষণাবেক্ষণের অভাবে তিনটি প্রধান খালের অধীনে থাকা বেশকিছু শাখা খাল বেহাল হয়ে গিয়েছে। পলি জমে কিছু খাল মজে গিয়েছে। আবার কিছু খাল জঙ্গলে ঢেকে গিয়েছে। তাছাড়া প্রচুর ফিল্ড চ্যানেল বা নালার দশাও বেহাল। সেগুলির পাকা গার্ডওয়াল ভেঙে গিয়েছে। ফলে জলের অপচয় হচ্ছে। তাই ২০০৪-০৫ সালে গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান থাকাকালীন ওই সব খাল ও নালা সংস্কারের দাবি জানানো হয়েছিল। তা এখনও পর্যন্ত বাস্তবায়িত হয়নি। তাই এবার বিষয়টি গুরুত্ব দিয়ে দেখার দাবি বৈঠকে জানানো হয়েছে।
তিস্তা ব্যারেজ প্রজেক্টের এক ইঞ্জিনিয়ার বলেন, শীঘ্রই এই ব্যাপারে সমীক্ষা চালিয়ে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হবে। পাশাপাশি সেচখাল ও ফিল্ড চ্যানেল রক্ষণাবেক্ষণ করতে গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান, পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি, পঞ্চায়েত সমিতি ও জেলা পরিষদের কৃষি কর্মাধ্যক্ষ, কৃষিদপ্তর এবং সেচদপ্তরের ইঞ্জিনিয়ারদের নিয়ে কমিটি গঠনের সিদ্ধান্ত হয়েছে।
 

05th  December, 2019
উদ্যানপালন দপ্তরের সহযোগিতায় বাণিজ্যিকভাবে গাঁদা ফুল চাষে সাফল্য এসেছে, আগ্রহ বেড়েছে চাষিদের 

সংবাদদাতা, গঙ্গারামপুর: দক্ষিণ দিনাজপুর জেলায় উদ্যানপালন দপ্তরের উদ্যোগে সরকারি সহায়তায় বাণিজ্যিকভাবে গাঁদা ফুল চাষ করে লাভের মুখ দেখছেন বাগিচা চাষিরা। খুব অল্প খরচে, কম সময়ে গাঁদাফুল চাষ করা যাচ্ছে। জেলাজুড়ে ফুলের ভালো বাজার থাকায় গাঁদাফুল চাষিরা লাভও করছেন। 
বিশদ

05th  December, 2019
নদীয়ায় নয়া মাছির আক্রমণ, সাদা হয়ে যাচ্ছে নারকেল গাছের পাতা 

শীর্ষেন্দু দেবনাথ, কৃষ্ণনগর: এক ধরনের সাদা মাছির আক্রমণে নারকেল গাছের পাতা সাদা হয়ে যাচ্ছে। এমনকী নারকেল বা ডাবের রং-ও সাদা হয়ে যাচ্ছে। পরে যদিও তা হয়ে যাচ্ছে কালো। নদীয়া জেলায় গত দু’ থেকে তিন দিন ধরে বিভিন্ন ব্লক থেকে এরকম খবর পেয়েছেন জেলা কৃষি দপ্তরের কর্তারা।
বিশদ

04th  December, 2019
গড়বেতায় দেশি মাগুরের সঙ্গে গলদা চিংড়ির চাষে লাভ বেশি 

সংবাদদাতা: পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার গড়বেতা ১ নম্বর ব্লকের তাপসকুমার তেওয়ারি ব্লকের ১০ নম্বর গরঙ্গা গ্রাম পঞ্চায়েতের অন্তর্গত ধ্বনি গ্রামের চাষিদের নিয়ে কম খরচে, অল্প সময়ের মধ্যে দেশি মাগুরের সঙ্গে গলদা চিংড়ির চাষ করে ভালো লাভ পেয়েছেন। এতে ওই অঞ্চলের চাষিদের মধ্যে মাছ চাষে প্রবল উৎসাহ দেখা দিয়েছে।  
বিশদ

04th  December, 2019
ডাল চাষ করে লাভের মুখ দেখতে পারেন চাষিরা 

সন্দীপ বর্মন, কোচবিহার: কোচবিহার জেলার আবহাওয়া ও জমির চরিত্র অনুযায়ী নভেম্বর মাস ডাল চাষের উপযুক্ত সময় বলে জানাচ্ছেন কৃষি বিশেষজ্ঞরা। তাঁরা জানান, একটু উঁচু, যেখানে বৃষ্টির জল দাঁড়ায় না, এ ধরনের ঢালু জমিতে নভেম্বরের প্রথম সপ্তাহ থেকেই কলাইয়ের বীজ বোনা যেতে পারে। 
বিশদ

04th  December, 2019
দুধের উৎপাদন বাড়ানোয় জোর, গোপালকদের প্রশিক্ষণ দেবে প্রাণিসম্পদ দপ্তর 

বিএনএ, বহরমপুর: রাজ্যে দুধের উৎপাদন আরও বাড়াতে একাধিক পদক্ষেপ নিচ্ছে প্রাণিসম্পদ দপ্তর। এখন রাজ্যে মোট দুধ উৎপাদন হয় ৫৬লক্ষ ৬ হাজার ৮৯৯ টন। তারমধ্যে গ্রীষ্মকালে দুধ উৎপাদন হয় ১৮লক্ষ ৫৬ হাজার ৪৫৫ টন। বর্ষার সময় দুধ পাওয়া যায় ১৮ লক্ষ ৯৫ হাজার ৪২ টন। শীতকালে দুধের পরিমাণ কিছুটা কমে যায়। 
বিশদ

04th  December, 2019
বীজ আলুর জন্য সময়ে চাষ শুরু করা জরুরি, সার দিতে হবে মেপে 

ব্রতীন দাস: বীজ আলু তৈরির জন্য সময়ে চাষ জরুরি। সারও দিতে হবে মেপে। সেইসঙ্গে পরিচর্যাও গুরুত্বপূর্ণ। সঠিক পদ্ধতি না মানলে মার খেতে পারে ফলন। এমনটাই বলছেন কৃষি বিশেষজ্ঞরা। বিধানচন্দ্র কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক সঞ্জীব দাস জানিয়েছেন, বীজ আলুর লক্ষ্যে চাষ করতে হলে অবশ্যই ব্রিডার সিড লাগবে। 
বিশদ

04th  December, 2019
শিলিগুড়িতে রেশম গুটি উৎপাদনে লাভের মুখ 

সুব্রত ধর, শিলিগুড়ি, রেশম দপ্তরের উদ্যোগে ফাঁসিদেওয়া ও মাটিগাড়ায় অগ্রহায়ণী পি-১ সঞ্চ গুটির ভালো উৎপাদন হয়েছে। পরবর্তী বন্দগুলিতেও উৎপাদনে জোর দেওয়া হচ্ছে। পরিচর্যা, প্রশিক্ষণ ও বিক্রির সুবন্দোবস্ত থাকায় এই গুটি উৎপাদনের ফলে কৃষকরা আর্থিকভাবে সহজেই লাভবান হতে পারবেন। 
বিশদ

04th  December, 2019
কম খরচে বেশি লাভ পাওয়া যায় তিলচাষে

অলোক বন্দ্যোপাধ্যায় : চাষিরা বিভিন্ন ফসলের সঙ্গে কিছুটা জমিতে তিলের চাষ করলে ভালো লাভ পেতে পারেন। তিল চাষে খরচ কম হয় এবং লাভ বেশি পাওয়া যায়। তিল চাষ করার জন্য এখন থেকেই প্রস্তুতি নিতে হবে। তিল বোনার ভালো সময় মাঘের শেষ সপ্তাহ থেকে ফাল্গুন মাসের তৃতীয় সপ্তাহ পর্যন্ত।
বিশদ

04th  December, 2019
নিয়ম মেনে চাষ করুন গাঁদাফুল

সংবাদদাতা: শীতকালিন ফুলচাষের মধ্যে গাঁদাফুলের চাষ লাভজনক। বাজারে শীতকালে গাঁদাফুলের চাহিদা বেশি থাকে। এই ফুল চাষে খরচ কম হয়। এবং অল্প সময়ের মধ্যে উৎপাদন পাওয়া যায়। চাষিরা গাঁদাফুলের চাষ করলে ভালো আর্থিক উপার্জন করতে পারেন। 
বিশদ

04th  December, 2019
বাঁকুড়ার প্রতি ব্লকে ফল ও ফুলের বাগান গড়তে মাটি পরীক্ষা করে ম্যাপ প্রকাশ প্রশাসনের 

বিএনএ, বাঁকুড়া: রুখাশুখা বাঁকুড়া জেলায় ১০০ দিনের কাজের প্রকল্পে পরীক্ষামূলকভাবে আম, মোসাম্বি, আপেল ও বেদানা চাষে সাফল্য মিলেছে। তাই এবার জেলার ২২টি ব্লকের কোন এলাকার মাটি কী ধরনের ফল বা ফুল চাষের জন্য আদর্শ, তা নিয়ে পরীক্ষা চালানোর পর একটি ম্যাপ প্রকাশ করেছে জেলা প্রশাসন।  
বিশদ

03rd  December, 2019
ডাল চাষ করে লাভের মুখ
দেখতে পারেন চাষিরা 

সন্দীপ বর্মন, কোচবিহার: কোচবিহার জেলার আবহাওয়া ও জমির চরিত্র অনুযায়ী নভেম্বর মাস ডাল চাষের উপযুক্ত সময় বলে জানাচ্ছেন কৃষি বিশেষজ্ঞরা। তাঁরা জানান, একটু উঁচু, যেখানে বৃষ্টির জল দাঁড়ায় না, এ ধরনের ঢালু জমিতে নভেম্বরের প্রথম সপ্তাহ থেকেই কলাইয়ের বীজ বোনা যেতে পারে।   বিশদ

27th  November, 2019
শিলিগুড়িতে রেশম গুটি উৎপাদনে লাভের মুখ 

সুব্রত ধর, শিলিগুড়ি: রেশম দপ্তরের উদ্যোগে ফাঁসিদেওয়া ও মাটিগাড়ায় অগ্রহায়ণী পি-১ সঞ্চ গুটির ভালো উৎপাদন হয়েছে। পরবর্তী বন্দগুলিতেও উৎপাদনে জোর দেওয়া হচ্ছে। পরিচর্যা, প্রশিক্ষণ ও বিক্রির সুবন্দোবস্ত থাকায় এই গুটি উৎপাদনের ফলে কৃষকরা আর্থিকভাবে সহজেই লাভবান হতে পারবেন।  বিশদ

27th  November, 2019
গড়বেতায় দেশি মাগুরের সঙ্গে গলদা চিংড়ির চাষে লাভ বেশি 

সংবাদদাতা: পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার গড়বেতা ১ নম্বর ব্লকের তাপসকুমার তেওয়ারি ব্লকের ১০ নম্বর গরঙ্গা গ্রাম পঞ্চায়েতের অন্তর্গত ধ্বনি গ্রামের চাষিদের নিয়ে কম খরচে, অল্প সময়ের মধ্যে দেশি মাগুরের সঙ্গে গলদা চিংড়ির চাষ করে ভালো লাভ পেয়েছেন।  বিশদ

27th  November, 2019
নিয়ম মেনে মটর চাষে লাভ মিলবে ভালোই 

অলোক বন্দ্যোপাধ্যায়: সঠিক নিয়ম মেনে মটর চাষ করলে চাষিরা ভালো লাভ পাবেন। সাধারণতঃ মটর লাগানোর সময় অগ্রহায়ণ মাস। ভালো জাতের বীজ লাগালে বেশি উৎপাদন পাওয়া যাবে।  বিশদ

27th  November, 2019

Pages: 12345

একনজরে
সংবাদদাতা, লালবাগ: লালগোলা ব্লকের বিলবোরা কোপরা গ্রাম পঞ্চায়েতের চিন্তামণি এবং বয়রা গ্রামে পদ্মা নদীর পাড় মেরামতির কাজ শুরুর আগে শনিবার সকালে নারকেল ফাটিয়ে পুজো দিলেন রাজ্যের শ্রম দপ্তরের রাষ্ট্রমন্ত্রী তথা জঙ্গিপুরের তৃণমূল বিধায়ক জাকির হোসেন।  ...

 উন্নাও ও নয়াদিল্লি, ৭ ডিসেম্বর (পিটিআই): শুক্রবার রাতে দিল্লির হাসপাতালে মৃত্যু হয়েছে উন্নাওয়ের নির্যাতিতার। শনিবার উন্নাওয়ে নির্যাতিতার বাড়িতে গিয়ে পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। উত্তরপ্রদেশে একের পর এক বর্বরোচিত ঘটনার প্রেক্ষিতে তোপ দাগলেন রাজ্যের বিজেপি সরকারের বিরুদ্ধে। ...

 বিএনএ, চুঁচুড়া: পুরসভার ওয়ার্ডের কাজের জন্যে বরাদ্দ হয়েছিল ২৮ জন শ্রমিক। কিন্তু, বাস্তবে অনুসন্ধান করে পাওয়া গেল ৪ জন! খোদ পুরসভার চেয়ারম্যানের উপস্থিতিতে এই পরিস্থিতি ...

  মেলবোর্ন, ৭ ডিসেম্বর: বিপজ্জনক আচরণ করছিল পিচ। আর সেই কারণে খেলা বন্ধ হয়ে গেল ঐতিহ্যশালী মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে। ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার। শেফিল্ড শিল্ডের ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিল ভিক্টোরিয়া এবং পশ্চিম অস্ট্রেলিয়া। টসে জিতে প্রথমে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয় ভিক্টোরিয়া। ...




আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

শরীর-স্বাস্থ্যের প্রতি নজর দেওয়া প্রয়োজন। কর্মক্ষেত্রে উন্নতির সম্ভাবনা। গুপ্ত শত্রুতার মোকাবিলায় সতর্কতা প্রয়োজন। উচ্চশিক্ষায় বিলম্বিত ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৯৩৫- অভিনেতা ধর্মেন্দ্রর জন্ম
১৯৭১- ভারত-পাকিস্তান যুদ্ধের সময় করাচি বন্দরে হানা দিল ভারতীয় নৌবাহিনী
১৯৭৪- গণভোটের মাধ্যমে গ্রিসে রাজতন্ত্রের অবসান
১৯৮০- নিউইয়র্কে এক মানসিক প্রতিবন্ধী ভক্তের হাতে খুন হলেন বিখ্যাত ব্রিটিশ পপ গায়ক জন লেনন
১৯৯১- রাশিয়া, বেলারুশ এবং ইউক্রেনের রাষ্ট্রনেতারা সোভিয়েত ইউনিয়ন ভেঙে দেওয়ার জন্য চুক্তিবদ্ধ হলেন এবং স্বাধীন রাষ্ট্রগুলিকে নিয়ে কমনওয়েলথ গঠন করলেন
২০০৯- বাগদাদে বোমা হামলায় নিহত ১২৭ এবং আহত ৪৪৮ জন





ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৭০.৪৯ টাকা ৭২.১৯ টাকা
পাউন্ড ৯২.২০ টাকা ৯৫.৫৪ টাকা
ইউরো ৭৭.৭৫ টাকা ৮০.৭৪ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
07th  December, 2019
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ৩৮, ৩৮৫ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ৩৬, ৪২০ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ৩৬, ৯৬৫ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৪৩, ৪০০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৪৩, ৫০০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]

দিন পঞ্জিকা

২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ৮ ডিসেম্বর ২০১৯, রবিবার, একাদশী ৫/৫৩ দিবা ৮/৩০। অশ্বিনী ৫৩/২৫ রাত্রি ৩/৩০। সূ উ ৬/৮/১৩, অ ৪/৪৮/১৭, অমৃতযোগ দিবা ৬/৫১ গতে ৮/৫৮ মধ্যে পুনঃ ১১/৪৯ মধ্যে পুনঃ ২/৪০ গতে ২/৪০ মধ্যে। রাত্রি ৭/২৮ গতে ৯/১৫ মধ্যে পুনঃ ১১/৫৫ গতে ১/৪২ মধ্যে পুনঃ ২/৩৫ গতে উদয়াবধি, বারবেলা ১০/৮ গতে ১২/৪৮ মধ্যে, কালরাত্রি ১/৮ গতে ২/৪৮ মধ্যে।
২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ৮ ডিসেম্বর ২০১৯, রবিবার, একাদশী ৩/১৫/৫২ দিবা ৭/২৭/৫৯। অশ্বিনী ৫৩/১০/৩০ রাত্রি ৩/২৫/৫০, সূ উ ৬/৯/৩৮, অ ৪/৪৮/৪৮, অমৃতযোগ দিবা ৭/১ গতে ৯/৮ মধ্যে ও ১১/৫৬ গতে ২/৪৫ মধ্যে এবং রাত্রি ৭/৩৩ গতে ৯/২১ মধ্যে ও ১২/২ গতে ১/৫০ মধ্যে ও ২/৪৮ গতে ৬/১০ মধ্যে, কালবেলা ১১/২৯/১৪ গতে ১২/৪৯/৮ মধ্যে, কালরাত্রি ১/৯/২০ গতে ২/৪৯/২৭ মধ্যে।
১০ রবিয়স সানি

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
দ্বিতীয় টি২০: ওয়েস্ট ইন্ডিজ ভারতের বিরুদ্ধে ৮ উইকেটে জিতল

10:32:44 PM

দ্বিতীয় টি২০: ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৭৩/১ (১০ ওভার) 

09:47:37 PM

দ্বিতীয় টি২০: ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ১৭১ রানের টার্গেট দিল ভারত 

08:47:23 PM

কোচবিহারে বিজেপি-তৃণমূল সংঘর্ষ, জখম ২ 
কোচবিহারে ফের বিজেপি-তৃণমূল সংঘর্ষ। বোমার ঘায়ে জখম দুই তৃণমূল সমর্থক। ...বিশদ

08:23:24 PM

দ্বিতীয় টি২০: ভারত ১৩২/৪ (১৫ ওভার) 

08:19:18 PM

দ্বিতীয় টি২০: ভারত ১১২/৩ (১২ ওভার) 

08:06:46 PM