Bartaman Patrika
আমরা মেয়েরা
 

দেবী কালিকার দেশমাতৃকা রূপ 

জাতীয়তাবাদের প্রথম ও সর্বশ্রেষ্ঠ পরিচয় ‘মা’ শব্দটি। মাতৃশক্তি এমনই বৈশিষ্ট্য সমন্বিত যে মাতৃজাতির সৃষ্টি না হলে দেশকে বা ভগবানকে মাতৃজ্ঞানে অর্চনা করার অধিকারী আমরা হতাম না। বিশ্বাত্মবোধ, জাতীয়তাবাদ ও স্বদেশপ্রেম চিরন্তনী এই ত্রিধারা শাশ্বত ভারতে মাতৃবন্দনার বিশ্বরূপ। দেশমাতারূপে মহাশক্তি মহামায়া মহাকালিকাকে প্রত্যক্ষ করা সেই প্রেরণারই জীবন্ত প্রতিমা। দেশপ্রেম ও স্বাধীনতা সংগ্রামের সঙ্গে শক্তিসাধনার সম্পর্ক চিরায়ত। নবযুগে দেশমাতৃকাতে দেবত্ব আরোপিত করে তাঁর প্রাণমন্ত্রে অনুপ্রাণিত হওয়াই ছিল দেশপ্রেমিকগণের সংকল্প বীজ। ঋগ্বেদীয় ‘দেবীসূক্তে’ মহাজাতির এই জননী নিজেকে রাষ্ট্রশক্তি স্বরূপিণী, জগদীশ্বরী, মহামায়া, মুক্তিপ্রদাত্রী হিসাবে ঘোষণা করেছেন। ‘অহংরাষ্ট্রী সংগমনী বসূনাম্‌’।
ঐতিহাসিক যুগে দেবী মহিমা লোকজীবনে এক বিরাট স্থান অধিকার করে রয়েছে। গুরু রামদাস স্বামীর নির্দেশে ছত্রপতি শিবাজী তুলজাপুরে শিউনার দুর্গের মধ্যে আদ্যাশক্তি ভবানীদেবীর সাধনায় রত হয়েছিলেন। উদ্দেশ্য ছিল রাষ্ট্ররূপিণী দেশজননীর শক্তি ও প্রেরণা লাভ করে অশুভ শক্তির দমনে এক মহান রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠা করা। আবার এই দেবী কালিকাই চিতোরেশ্বরী রূপে স্বাধীনতা রক্ষায় শৌর্যদীপ্ত রাজপুতবাসীগণের আরাধ্যা হয়ে উঠেছিলেন। বাংলার বীর প্রতাপাদিত্য স্বদেশ রক্ষায় পীঠদেবী যশোরেশ্বরী কালীমাতার বন্দনা করে বঙ্গমাতার শৃঙ্খল মোচনে মোগল বাহিনীর বিরুদ্ধে যুদ্ধে অবতীর্ণ হয়েছিলেন। বঙ্গ-ভারতের নবযুগের দেশাত্মবোধের উদ্বোধনে আনন্দমঠ উপন্যাসে সাহিত্যসম্রাট ঋষি বঙ্কিমচন্দ্রের কম্বুকণ্ঠে ধ্বনিত হয়েছিল মুক্তি সাধনার দীক্ষামন্ত্র, জাতির ঐক্য সাধনে অমোঘ মন্ত্র—‘বন্দেমাতরম্‌’। দেশমাতৃকা ও জগন্মাতৃকা মিলেমিশে একাকার হয়ে গিয়েছিল ঋষি-কবির উপলব্ধিতে। দেশমাতৃকার সোনার মন্দিরে মাতৃমন্ত্রের নবঋক্‌ ধ্বনিতে চিন্ময়ী মহাশক্তির আবরণ হয়েছিল উন্মোচিত। আর এই ‘বন্দেমাতরম্‌’ই আধুনিক ভারতের মাতৃবন্দনার মঙ্গলসূত্র। ‘বাহুতে তুমি মা শক্তি,/ হৃদয়ে তুমি মা ভক্তি/ তোমারি প্রতিমা গড়ি/ মন্দিরে মন্দিরে।’
ঠাকুর শ্রীরামকৃষ্ণদেবের সাধন-ভূমি দক্ষিণেশ্বরের মা ভবতারিণী কালীমন্দিরেই হয়েছিল স্বামী বিবেকানন্দের অভ্যুদয়। যুগনায়ক বিবেকানন্দের চিন্তা ও চেতনায় বরাভয়দায়িনী মা কালীই হয়ে উঠেছিলেন দেশজননী ভারতবর্ষ। নূতন ভারত গঠনে দেশের যুবসমাজকে ডেকে বজ্রকণ্ঠে বলেছিলেন তিনি, ‘ভুলিও না তুমি জন্ম হইতেই মায়ের জন্য বলিপ্রদত্ত, ভুলিও না তোমার সমাজ সে বিরাট মহামায়ার ছায়া মাত্র।’—এই গরিমাময় মন্ত্রে দেশজননীর প্রাণ প্রতিষ্ঠায় স্বাদেশিকতার প্রেরণায় উদ্বুদ্ধ হয়ে শতশত মুক্তিপাগল সন্তানের প্রাণে-মনে সেদিন জাগ্রত হল স্বদেশ প্রেমের এক উত্তাল তরঙ্গ।
স্বামীজির বিখ্যাত কবিতা ‘নাচুক তাহাতে শ্যামা’ স্বাধীনতা সংগ্রামীদের কাছে ছিল নবজীবন সঞ্চারের উৎস। নেতাজি সুভাষচন্দ্র এই কবিতার শেষ চার ছত্র প্রায়শই আবৃত্তি করতেন। চিরজাগ্রতা দেশজননীর অর্চনার মধ্য দিয়েই ঋষিবর শ্রীঅরবিন্দ আবিষ্কার করেছিলেন কোটি ব্রহ্মাণ্ড পালিনী মাতৃশক্তিকে। সুখপ্রদায়িনী জগন্মাতৃকা ও চরাচর বিহারিণী দেশমাতৃকাকে একীভূত করে ভারতবর্ষের মধ্যেই দেখলেন তিনি পরমানন্দ স্বরূপিণী পরমেশ্বরীর আবিষ্ট রূপ। স্বদেশমন্ত্রের মধ্যেই মহাকালিকার দর্শন। ১৯০৮ সালে স্বদেশি যুগে সেই তুমুল ঝড়ের মধ্যে আলিপুর বোমার মামলায় ধৃত হয়ে শ্রীঅরবিন্দ কারাগারের যে ঘরে নিক্ষিপ্ত হলেন, সেই ঘরে একটি কৌটোয় তিনি মাতৃতীর্থ দক্ষিণেশ্বরের মাটি এনে রেখেছিলেন। এক বছর পরে কারামুক্ত হয়ে তিনি ‘কারাকাহিনী’-তে লিখলেন, ‘দক্ষিণেশ্বরের মাটি’ কোন ভয়ঙ্কর তেজবিশিষ্ট স্ফোটক পদার্থের সমতুল্য বস্তু।’ বঙ্কিমচন্দ্রের উপন্যাস ‘আনন্দমঠে’ স্বদেশ প্রেমের যে পরিপূর্ণ চিত্র অঙ্কিত হয়েছিল, ১৯০৩ সালে ঋষি অরবিন্দ পরিকল্পিত ‘ভবানী মন্দির’ তার উজ্জ্বলতর প্রয়াস। ‘ভবানী মন্দির’ গড়ার আদেশ শ্রীঅরবিন্দ পেয়েছিলেন তাঁর নিজের কথায় ‘সূক্ষ্মদেহী শ্রীরামকৃষ্ণ পরমহংসদেবের কাছ থেকে’।
অগ্নিতনয় নেতাজি সুভাষচন্দ্র নিরত থাকতেন মাতৃপুজো ও মাতৃবন্দনা করে ভারতের ক্ষাত্র শক্তিকে জাগ্রত করে পূর্ব গৌরবে প্রতিষ্ঠিত করতে। মাতৃমন্ত্রকে উপজীব্য করেই তিনি স্বাধীনতার স্বপ্ন দেখেছিলেন। নেতাজি ছিলেন কালীমায়ের ঐকান্তিক বন্দক। সুভাষচন্দ্রের দৃষ্টিতে কালীপুজো হচ্ছে দেশমাতৃকার পটভূমিকায় এক সার্থক ঐকতান। দক্ষিণ কলকাতার এলগিন রোডের বাড়িতে যখন তিনি গৃহবন্দি ছিলেন, তখন তিনি দক্ষিণেশ্বর থেকে ভক্তজনকল্পবল্লী ভবতারিণী মায়ের চরণামৃত, নির্মাল্য ও প্রসাদ আনিয়ে ছিলেন। তাঁর দেশব্রতী জীবনের অনেক গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ ও সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন তিনি দীপান্বিতা অমাবস্যায় শ্যামাপুজোর দিন। সবচেয়ে বড় ঘটনা—এই দেবীপুজোর পুণ্য তিথিতে ১৯৪৩ সালের ২১ অক্টোবর সিঙ্গাপুরে সর্বাধিনায়ক বীর সুভাষচন্দ্র আজাদ হিন্দ ফৌজের প্রতিষ্ঠা করে স্বাধীন এক সরকার গঠন করেছিলেন। আজ থেকে ঠিক ৭৫ বছর আগের ভারত ইতিহাসে এক গরিমাময় প্রসঙ্গ।
ভারতমাতা যে স্বয়ং কালীমাতা দ্বিজেন্দ্রলাল রায়ের গানে তা পরিস্ফুট। ‘রানাপ্রতাপ’ নাটকে কবি লিখলেন, ‘চল সমরে দিব জীবন ঢালি—জয় মা ভারত জয় মা কালী।’
পরমা জননী এই মাতৃমূর্তির বাইরের রূপ দেখে ভীষণ, নিষ্ঠুর মনে হলেও অন্তরালে মায়ের মুক্তিদাত্রী মমতাময়ী রূপের কথা আমাদের চিন্তনীয় ও স্মরণীয়। তাই বিদ্রোহী কবি, মাতৃভক্ত কাজী নজরুল লিখেছেন: ‘(আমি) দেখছি যে বিপুল স্নেহের সাগরদোলে তোর আঁখিতে।/ কেন আমায় দেখাস মা ভয় খড়্গ নিয়ে মুণ্ড নিয়ে?/ আমি মা’র সেই সন্তান ভুলাবি মা ভয় দেখিয়ে?’
দেশ মৃন্ময়ী নয়, চিন্ময়ী। তাই সংহতির কবি নজরুলের প্রত্যয়:
‘এবার নবীন মন্ত্রে হবে জননী তোর উদ্বোধন
নিত্যা হয়ে রইবি ঘরে, হবে না তোর বিসর্জন।’
চৈতন্যময় নন্দ 
26th  October, 2019
মানুষ চেনা খুব কঠিন: অন্বেষা হাজরা 

মেয়েটির ভূত দেখার খুব ইচ্ছে। তাই সে ভূত দেখার জন্য যখন তখন হানাবাড়িতে হানা দেয়। কিন্তু ভূতের বদলে সেখানে দেখা মেলে শুধুমাত্র চোরের। মেয়ের ভূত দেখার তাড়নায় অতিষ্ঠ হয়ে বাড়ির লোক মেয়েটিকে বলে যে, তাকে ভূতের বাড়িতেই বিয়ে দেবে। যেখানে শাশুড়ি হবে শাকচুন্নি আর ননদ হবে পেতনি। 
বিশদ

02nd  November, 2019
বিদ্যাসাগরের বিধবারা 

বঙ্গবিধবাদের জগন্নাথধাম ‘পালানো’ সম্পর্কে এই বর্ণনা পাওয়া যায় ১৮৪৯ সালের ‘সম্বাদ রসরাজ’ পত্রিকায়— ‘নগরেতে হইয়াছে গেল গেল রব।/ পলাইয়া ক্ষেত্রে যায় নরনারী সব।।/ কাহারো পলায়ে গেল বিধবা বহুড়ী।/ এর বাড়ি তার বাড়ি খুঁজিছে শাশুড়ী।।’  
বিশদ

02nd  November, 2019
মা দুর্গার আর এক অন্য রূপ জ গ দ্ধা ত্রী

মা জগদ্ধাত্রী মহাশক্তির প্রতীক, তিনি সর্বস্থানে বিচরিত, তিনি চির শাশ্বত। তাঁর ধ্যান মন্ত্রে পাওয়া যায়,
সিংহ স্কন্ধ সমারূঢ়াং নানালঙ্কার ভূষিতাং।
চতুর্ভুজাং মহাদেবীং নাগ যজ্ঞোপবীতিধারিণীং...
নারদাদ্যৈ মুনিগণৈঃ সেবিতাং ভবসুন্দরীয়।।  বিশদ

02nd  November, 2019
যুগে যুগে ভা ই ফোঁ টা 

‘ভাইয়ের কপালে দিলাম ফোঁটা, যমদুয়ারে পড়ল কাঁটা’— বোনেরা এই মন্ত্র উচ্চারণে কপালে চন্দনের ফোঁটা দিয়ে তাদের ভাইদের দীর্ঘায়ু কামনা করে। এই নিয়ম যুগ যুগ ধরে চলে আসছে। কিন্তু এখন তো প্রায় সবাই একা একা বড় হচ্ছে। তাই আগেকার মতো ভাইফোঁটা সবাই কি পালন করতে পারে? নাকি ভাইফোঁটা হারিয়ে যাচ্ছে? 
বিশদ

26th  October, 2019
ডুব দে রে মন কালী বলে 

জব চার্নকের শহরে উত্তর থেকে দক্ষিণ অজস্র কালীবাড়ি রয়েছে। কোনও কালীবাড়ি সম্ভ্রান্ত পরিবারের রানির হাত ধরে, কোনওটা বা ফিরিঙ্গি সাহেবের প্রচেষ্টায় প্রতিষ্ঠা পেয়েছে। সারাবছর যে নিয়মই থাকুক না কেন দীপান্বিতা অমাবস্যায় অর্থাৎ কালীপুজোর বিশেষ দিনে কীভাবে পূজিত হন কলকাতার বিখ্যাত সব মন্দিরের মাতৃমূর্তি?
বিশদ

26th  October, 2019
মা কালী ও তন্ত্রসাধনা 

তন্ত্র সাধনার দেশ ভারতবর্ষ। সেই সুপ্রাচীন কাল থেকে ভক্ত তার সিদ্ধিলাভের জন্য তন্ত্র সাধনা করে আসছেন। যে সব দেব-দেবীর উদ্দেশ্যে তন্ত্র সাধনা হয়ে থাকে তার মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় দেবী হলেন কালী। বিভিন্ন উদ্দেশ্যে সাধক-সাধিকারা মা কালীর নানা রূপের সাধনা করেন। তন্ত্র সাধনা খুবই গুপ্ত ও কঠিন সাধনা। 
বিশদ

26th  October, 2019
টেনিস তারকা অ্যাশলে বার্টি 

ফরাসি ওপেনে এবারকার মেয়েদের সিঙ্গলস চ্যাম্পিয়ন অ্যাশলে বার্টি। ছেচল্লিশ বছরের দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর ২৩ বছরের অস্ট্রেলীয় তরুণীর ফরাসি ওপেন জয়! ইতিহাস গড়লেন বার্টি। রোলাঁ গারোজে চেক কন্যা মার্কেতা ভন্ড্রোসোভাকে হারিয়ে দুর্দান্তভাবে জয়ী হয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার বিখ্যাত ক্রিকেটার রিকি পন্টিংয়ের দেশ কুইন্সল্যান্ডের মেয়ে বার্টি।  
বিশদ

19th  October, 2019
নারীর নিরাপত্তায় সমাজ ও রাষ্ট্রের ভূমিকা 

মেয়েটি যাতে শারীরিক নিগ্রহ বা লাঞ্ছনার শিকার হলেও প্রতিবাদের মনোবল অক্ষুণ্ণ রাখতে পারে সেই মানসিকতা তার মধ্যে গড়ে তুলতে হবে পরিবারের লোকজনদের। ভয়ে, লজ্জায় নয়, দৃঢ় মনোভাব নিয়ে পরিস্থিতির মোকাবিলা করার সাহসের শিক্ষা আসবে পরিবার থেকেই।
বিশদ

19th  October, 2019
ভারত-সুন্দরী সুমন রাও একজন সমাজসেবীও 

২০১৯ সালের ‘ফেমিনা মিস ইন্ডিয়া’ হলেন রাজস্থানের সুমন রাও। এছাড়া, ছত্তিশগড়ের শিবানী যাদব ‘ফেমিনা মিস গ্র্যান্ড ইন্ডিয়া’ আর বিহারের শ্রেয়া শঙ্কর ‘মিস ইন্ডিয়া ইউনাইটেড কনটেস্ট’ খেতাব জিতেছেন। সম্প্রতি মুম্বইয়ের ওয়ার্লির সর্দার বল্লভভাই প্যাটেল ইন্ডোর স্টেডিয়ামে ‘ফেমিনা মিস ইন্ডিয়া’র গ্র্যান্ড ফিনালে অনুষ্ঠান আয়োজন করা হয়।  
বিশদ

19th  October, 2019
ক্যারাটেতে সাফল্য এনেছে তারকেশ্বরের মেয়ে বৃষ্টি 

নিম্ন মধ্যবিত্ত পরিবার থেকে উঠে এসেছে হুগলি জেলার তারকেশ্বরের পার্শ্ববর্তী মুক্তারপুর গ্রামের পঞ্চদশী বৃষ্টি মণ্ডল। এবছর ১৬ আগস্ট ভদ্রেশ্বরের তেলেনিপাড়া এম জি বিদ্যাপীঠে অনুষ্ঠিত ৬৫তম চন্দননগর মহকুমা স্কুল ক্যারাটে চ্যাম্পিয়ানশিপে মেয়েদের বিভাগে (অনূর্ধ্ব ১৭) দ্বিতীয়স্থান দখল করে মহকুমা ক্রীড়া মহলে সাড়া ফেলে দিয়েছে সে।  
বিশদ

19th  October, 2019
কঠোর মায়েদের সন্তানের ভবিষ্যৎ উজ্জ্বল হয় 

বেড়ে ওঠার বয়সে আপনার মা কি খুব কঠোর ছিলেন? তিনি কি আপনাকে ঘর পরিষ্কার করতে, বাড়ির কাজ করতে এবং প্রতিনিয়ত ভবিষ্যৎ নিয়ে ভাবতে বলতেন? আমাদের মধ্যে বেশিরভাগ সন্তানই এমন পরিবারে বড় হয়েছি যেখানে মায়েরা ছিলেন আমাদের চিরশত্রু! 
বিশদ

12th  October, 2019
এসো মা লক্ষ্মী বসো ঘরে 

ননীবালার কথা: আশ্বিনে মা আসেন। তার রেশ মিটতে না মিটতেই দু-দিন পরেই তো মেয়ে আসবে। তাঁকে আবাহনেরও কম আয়োজন নাকি! বর্ষা শেষ হয়ে ভাদ্র পড়তেই ভাঁড়ার ঘরের ঝাড়া-বাছা রোদে দেওয়ার ধুম।  
বিশদ

12th  October, 2019
লক্ষ্মীর পাঁচালি গৃহিণীদের
সুখী সংসারের উপদেশ দেয় 

আমাদের বাড়ির হোম মিনিস্টার বলা যায় বাড়ির গৃহবধূ বা গৃহিণীদের। প্রতি বৃহস্পতিবার আমাদের বাংলার ঘরে ঘরে গৃহলক্ষ্মীর পুজো ও পাঁচালি পাঠ সেই পুরানো দিন থেকে আজ পর্যন্ত চলে আসছে। বলা যায় আমাদের সমাজের অন্দরমহলের সবচেয়ে জনপ্রিয় দেবী হলেন লক্ষ্মী। 
বিশদ

12th  October, 2019
বিজয়া দশমী 

দশমী তিথিতে সকাল বেলায় নির্ঘণ্ট অনুযায়ী পুরোহিত আচমন ভূতাপসারণ প্রভৃতি করে পঞ্চোপচারে দেবীর পুজো করেন। ওই দিন দেবীকে পান্তাভাত, কচুর শাক (নুন ছাড়া) ভোগ দেওয়া হয়। যাঁরা অন্নভোগ দেন না তাঁরা চিঁড়ে, মুড়কি, খই, বাতাসা, দই প্রভৃতি ভোগ দেন।  
বিশদ

05th  October, 2019
একনজরে
সংবাদদতা, আলিপুরদুয়ার: ২০২১ সালে বিধানসভা ভোট। তার আগেই রয়েছে আলিপুরদুয়ার পুরসভার ভোট। এই জোড়া নির্বাচনকে পাখির চোখ করে জেলায় বন্ধ চা বাগানের ইস্যুকে হাতিয়ার করে তেড়েফুঁড়ে ময়দানে নেমে পড়েছে গেরুয়া বাহিনী। অন্যদিকে বিজেপির প্রধান প্রতিপক্ষ রাজ্যের শাসক দল তৃণমূল শিবিরে ...

নিজস্ব প্রতিনিধি,কলকাতা: আগামী ২২ থেকে ২৬ নভেম্বর কলকাতায় হবে টাটা স্টিল র‌্যাপিড - ব্লিৎজ টুর্নামেন্ট। এই প্রতিযোগিতায় বিশ্বের প্রথম ১৫ জন গ্র্যান্ডমাস্টারের মধ্যে দশজন যোগ ...

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: আগামী শিক্ষাবর্ষে প্রাথমিকে পঞ্চম শ্রেণীর আসা বড়সড় প্রশ্নচিহ্নের মুখে। সরকারের এই পরিকল্পনা কার্যকর করতে স্কুলগুলিতে যে অতিরিক্ত ক্লাসরুমের বন্দোবস্ত করতে হবে, তার ...

 বিএনএ, বারাকপুর: বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিংয়ের গড় ভাটপাড়া পুরসভার আরও পাঁচ বিজেপি কাউন্সিলার তৃণমূলের দিকে পা বাড়িয়ে রাখলেন। তাঁরা যে কোনও দিন ঘরে ফিরতে পারেন ...




আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

ব্যবসা সূত্রে উপার্জন বৃদ্ধি। বিদ্যায় মানসিক চঞ্চলতা বাধার কারণ হতে পারে। গুরুজনদের শরীর-স্বাস্থ্য নিয়ে সচেতন ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৮৬২- সঙ্গীত জগতের কিংবদন্তি পুরুষ ওস্তাদ আলাউদিন খাঁর জন্ম।
১৮৯৫- জার্মান পর্দাথবিদ উইলিয়াম কনরাড রঞ্জন এক্স রে আবিষ্কার করেন।
১৯১০ - ওয়াশিংটনের নির্বাচনে প্রথম কোনও মহিলা ভোট দেন।
১৯২৭- রাজনীতিক লালকৃষ্ণ আদবানির জন্ম
১৯৩৬ - প্রখ্যাত হিন্দী কথাসাহিত্যিক মুনশি প্রেমচাঁদের মৃত্যু
১৯৪৭ – সঙ্গীতশিল্পী ঊষা উত্থুপের জন্ম
১৯৭৬ - ক্রিকেটার ব্রেট লি’র জন্ম
২০১৭ – ভারতে ৫০০ ও ১০০০ টাকার নোট বাতিল হয়





ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৬৯.৪৮ টাকা ৭২.৬৪ টাকা
পাউন্ড ৮৯.১২ টাকা ৯৩.৪৫ টাকা
ইউরো ৭৬.৭৪ টাকা ৮০.৪৮ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ৩৮,৮২৫ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ৩৬,৮৩৫ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ৩৭,৩৯০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৪৫,৭৫০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৪৫,৮৫০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]

দিন পঞ্জিকা

২১ কার্তিক ১৪২৬, ৮ নভেম্বর ২০১৯, শুক্রবার, একাদশী ১৬/৩০ দিবা ১২/২৫। পূর্বভাদ্রপদ ১৫/৫৯ দিবা ১২/১২। সূ উ ৫/৪৮/২৭, অ ৪/৫২/২১, অমৃতযোগ দিবা ৬/৩৩ মধ্যে পুনঃ ৭/১৭ গতে ৯/৩০ মধ্যে পুনঃ ১১/৪২ গতে ২/৩৯ মধ্যে পুনঃ ৩/২৩ গতে অস্তাবধি। রাত্রি ৫/৪৪ গতে ৯/১১ মধ্যে পুনঃ ১১/৪৬ গতে ৩/১৩ মধ্যে পুনঃ ৪/৫ গতে উদয়াবধি, বারবেলা ৮/৩৫ গতে ১১/২১ মধ্যে, কালরাত্রি ৮/৬ গতে ৯/৪৩ মধ্যে। 
২১ কার্তিক ১৪২৬, ৮ নভেম্বর ২০১৯, শুক্রবার, একাদশী ১৫/৫৮/১৯ দিবা ১২/১২/৪৩। পূর্বভাদ্রপদ ১৭/৫৮/২৫ দিবা ১/০/৪৫, সূ উ ৫/৪৯/২৩, অ ৪/৫৩/১৪, অমৃতযোগ দিবা ৬/৪৪ মধ্যে ও ৭/২৭ গতে ৯/৩৬ মধ্যে ও ১১/৪৫ গতে ২/৩৭ মধ্যে ও ৩/২০ গতে ৪/৫৩ মধ্যে এবং রাত্রি ৫/৩৯ গতে ৯/১১ মধ্যে ও ১১/৫০ গতে ৩/২২ মধ্যে ও ৪/১৫ গতে ৫/৫০ মধ্যে, বারবেলা ৮/৩৫/২১ গতে ৯/৫৮/২০ মধ্যে, কালবেলা ৯/৫৮/২০ গতে ১১/২১/১৮ মধ্যে, কালরাত্রি ৮/৭/১৬ গতে ৯/৪৪/১৭ মধ্যে। 
১০ রবিয়ল আউয়ল 

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
আগামীকাল অযোধ্যা মামলার রায় ঘোষণা করবে সুপ্রিম কোর্ট

09:17:50 PM

এবার হকি বিশ্বকাপ ভারতে
২০২৩ সালে পুরুষদের এফআইএইচ হকি বিশ্বকাপ আয়োজন করবে ভারত। ...বিশদ

05:08:38 PM

পদত্যাগ করলেন মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী
 মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী পদ থেকে ইস্তফা দিলেন দেবেন্দ্র ফড়নবিশ। সরকার গড়ার ...বিশদ

05:01:39 PM

আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন হল এবছরের আন্তর্জাতিক কলকাতা ফিল্ম উৎসবের

05:01:00 PM

বর্ধমান স্টেশনে পদপিষ্ট হয়ে জখম বহু
বর্ধমান স্টেশনে ৪ ও ৫ নম্বর প্লাটফর্মের মাঝে ফুটওভারব্রিজে ওঠানামা ...বিশদ

04:54:00 PM

গান্ধী পরিবারের এসপিজি নিরাপত্তা তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত কেন্দ্রের: সূত্র 

03:53:10 PM