Bartaman Patrika
চারুপমা
 

বাহারি ঘড়ি 

লেডিজ রিস্ট ওয়াচে রোজগোল্ড বডির সঙ্গে ম্যাচ করে রোজগোল্ড ডায়াল এখন তরুণ প্রজন্মের পছন্দের শীর্ষে। আর কী কী ট্রেন্ড ফ্যাশনে? খবরে সোমা লাহিড়ী।

শান্তিনিকেতনে আশ্রম-বিদ্যালয় গড়ে উঠছে। অর্থ সংকটে জেরবার রবীন্দ্রনাথ। কবিপত্নী মৃণালিনী দেবী নিজের গায়ের গয়না খুলে তুলে দিয়েছিলেন কবির হাতে। তারপরও রক্ষা পায়নি কবির অত্যন্ত প্রিয় সোনার পকেট ঘড়িটি। ঘড়িটি বিয়েতে যৌতুক পেয়েছিলেন রবীন্দ্রনাথ। খাঁটি সোনায় তৈরি পকেট ঘড়িটি দেখতেও ছিল অভিনব। দু’দিকে দু’টো ডালা, মাঝখানে একটা বোতাম। বোতাম টিপলেই টুক করে একটা শব্দ হতো আর খুলে যেত ঘড়িটা। ডালার ভেতর দিকে রবীন্দ্রনাথের নামের আদ্যক্ষর খোদাই করা ছিল। বিয়ের পর থেকেই রবীন্দ্রনাথ সযত্নে পকেটে রাখতেন ঘড়িটি। শেষমেশ প্রিয় ঘড়িটি কবি বিক্রি করে দিয়েছিলেন আশ্রমের জন্য। কিনেছিলেন জ্যোতিরিন্দ্রনাথ ঠাকুরের বন্ধু অক্ষয়কুমার চৌধুরীর স্ত্রী শরৎকুমারী। তিনি জানতেন সোনার ঘড়িটি কবির বিয়ের যৌতুক এবং অত্যন্ত প্রিয়। নিজের কাছে পরম যত্নে রেখেছিলেন ঘড়িটি। গল্প এখানেই শেষ নয়। এই ঘটনার বেশ কিছু বছর পরে কবিপুত্র রথীন্দ্রনাথের বিয়েতে আমন্ত্রিত হয়েছিলেন অক্ষয়কুমার ও শরৎকুমারী। উপহার হিসেবে নিয়ে গিয়েছিলেন ছোট্ট বাক্সে ভরে রবীন্দ্রনাথের সেই সোনার ঘড়িটি। বাবার বিয়ের ঘড়ি নিজের বিয়েতে উপহার পেয়ে আনন্দে বিহ্বল হয়েছিলেন রথীন্দ্রনাথ। রবীন্দ্রনাথ বিস্ময়ে কোনও কথা বলতে পারেননি।
শুধু কবিগুরুই নন, অনেক বিশিষ্ট মানুষের জীবনেই ঘড়ি নিয়ে নানারকম সুখ-দুঃখের স্মৃতি রয়েছে। রয়েছে আমাদেরও। জীবনে প্রথম পাওয়া হাতঘড়িটি সকলেই যত্নে রাখেন, তা সে চলুক আর না-ই চলুক। এক সময় এইচএমটি ও অ্যাংলো সুইস কোম্পানির ঘড়ি বাজার দখল করেছিল। এদেশে আটের দশকের মাঝামাঝি টাটা কোম্পানি পা রেখেছিল রিস্টওয়াচের আঙিনায়। টাইটান ব্র্যান্ড নিয়ে বাজারে এসেই তখনকার নতুন প্রজন্মের মন জিতেছিল। দম দেওয়া ঘড়ি নয়, ব্যাটারিচালিত এই কোয়ার্টজ ঘড়ির ডিজাইনও অত্যন্ত স্মার্ট। তাই পছন্দ হয়েছিল রুচিশীল মধ্যবিত্ত থেকে বিত্তবান মানুষের। এছাড়াও তখন থেকেই কম দামে নানা ধরনের কোয়ার্টজ ঘড়ি ভারতের বাজারে আসতে শুরু করে। শুধু মেটাল বডি নয়, প্লাস্টিক বডির ঘড়িও স্ট্রিট মার্কেটে ছেয়ে যায়। এখনও হকার্স কর্নার ও স্ট্রিট মার্কেটে এই ধরনের রিস্ট ওয়াচের রমরমা। ডিজাইন ও রঙের বাহার আকর্ষণ করে কমবয়সিদের। বিদেশি নামী ব্র্যান্ডের রিস্ট ওয়াচের ডিজাইন পুরোপুরি নকল করে তৈরি ঘড়িগুলোর দাম একটু বেশি।
টাটার তিন ব্র্যান্ড
টাটা কোম্পানির টাইটান পুরুষ ও মহিলাদের জন্য অসংখ্য ডিজাইনের ঘড়ি বাজারে এনেছে। এদের নিজস্ব ডিজাইনার টিম আন্তর্জাতিক ব্র্যান্ডগুলোর সঙ্গে রীতিমতো পাল্লা দিয়ে ডিজাইন বদল করে। গোল্ডেন, স্টিল, গানমেটাল ও রোজ গোল্ড সমানভাবেই চলছে বলে জানা গেল। ঘড়ির ব্যান্ডের ক্ষেত্রে মেটাল এবং লেদার দুইয়েরই চাহিদা সমান। একটু পার্টি লুক বা গর্জিয়াস রিস্ট ওয়াচ চাইলে এদের ‘রাগা’ বা ‘নেবুলা’ কালেকশনে হাত বাড়াতে হবে। স্টোন, ক্রিস্টাল দিয়ে নকশা করা ব্রেসলেট টাইপ ব্যান্ডের ঘড়িগুলো সোনার গয়নার সঙ্গে পাল্লা দিতে পারে।
‘সোনাটা’ টাটার কম দামি রেঞ্জের প্রোডাক্ট। এতেও এখন পুরুষ ও মহিলাদের জন্য অসংখ্য নতুন কালেকশন লঞ্চ হয়েছে। স্টিল, গোল্ডেন, রোজগোল্ড, স্টোন স্টাডেড ডিজাইন পাবেন এতে। আবার ক্যাজুয়াল টাইপ ডিজাইনও রয়েছে।
টাটার ‘ফাস্টট্র্যাক’ ব্র্যান্ডটিও যথেষ্ট জনপ্রিয়। এটি স্পোর্টস ওয়াচ। এর স্টাইলিশ গেটআপ কেতাদুরস্ত মানুষজনের পছন্দ হবেই। ক্যাজুয়াল ও অফিসওয়্যার ডিজাইন রয়েছে ফাস্টট্র্যাকে। ছোটদের জন্য ফাস্টট্র্যাকের বেশ মজাদার কালেকশন (জুপ) রয়েছে। ছোটদের প্রিয় কার্টুন চরিত্র, বার্বি ডল ইত্যাদি রয়েছে মোটিফে।
কেমন ডায়াল, কেমন ব্যান্ড
ঘড়ির গেটআপে আন্তর্জাতিক ট্রেন্ডের ছোঁয়া লেগেছে বহুদিনই। জানা গেল, এখন রাউন্ড শেপের পাশাপাশি রেকট্যাঙ্গুলার শেপের রিস্টওয়াচের খুব চাহিদা। বিশেষ করে পুরুষদের ঘড়ির ফ্যাশনে রাউন্ড শেপের তুলনায় রেকট্যাঙ্গুলারের চাহিদা বেশি। ডায়ালের রং নিয়েও এখন নানারকম পরীক্ষা-নিরীক্ষা চলছে দেশি-বিদেশি সব ঘড়িতেই। লেডিজ রিস্ট ওয়াচে রোজগোল্ড বডির সঙ্গে ম্যাচ করে রোজগোল্ড ডায়াল এখন তরুণ প্রজন্মের পছন্দের শীর্ষে। সঙ্গে স্টোনস্টাড থাকলে তো কথাই নেই। ব্ল্যাক, গ্রে, মেরুনিশ রেড, ব্লু ডায়ালও ভালো চলছে। তবে যাঁরা এলিগ্যান্ট লুক চান তাঁরা পরিষ্কার সাদা ডায়ালের হাতঘড়িতেই হাত বাড়ান। রোমান হরফে সময়-বিভাজিকা পছন্দ অনেকের। অনেকে ডায়ালে ডিজাইনও ভালোবাসেন।
রোজ পরার জন্য ঘড়ির ব্যান্ডের ক্ষেত্রে লেদার বা সেমি লেদারই চান সকলে। অনেকে পুরো স্টিল বডি রিস্ট ওয়াচও অফিসওয়্যার হিসেবে পছন্দ করেন। তবে কোনও অনুষ্ঠানে বা পার্টিতে পরার জন্য গোল্ডেন কেসের গোল্ডেন ব্যান্ড ঘড়ি অনেকেই রাখেন ওয়ার্ডরোবে। মেয়েরা জুয়েলারির বিকল্প হিসেবে স্টোন স্টাডেড গোল্ডেন ব্যান্ড বা রোজ গোল্ডেন ব্যান্ড ঘড়ি রাখেন তাঁদের পার্টিওয়্যার কালেকশনে।
লাক্সারি ও ক্লাসিক
এ প্রজন্মের অনেকেই মনে করেন লাখ টাকা খরচ করে সোনার গয়না যদি কেনা যায়, তাহলে ঘড়ি কেন নয়? ঘড়িও তো অলঙ্কার। সে-ও তো অলঙ্কারের মতোই আভিজাত্যে অহং প্রকাশ করে। কব্জিতে একটা র‌্যাডো বা লঁজিনি থাকলে তার গরিমাই আলাদা। এখন ভারতবর্ষ তথা কলকাতায় এমন লাক্সারি ব্র্যান্ডের অজস্র স্টোর রয়েছে। কাছাকাছি স্টোর না থাকলেই বা কী? অনলাইনে কেনার সুযোগ তো সবসময় রয়েছে। এবার কয়েকটি লাক্সারি ব্র্যান্ডের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিই আপনাদের।
র‌্যাডো সুইজারল্যান্ডের কোম্পানি। ১৯১৭ সাল থেকে নানা ধরনের রিস্টওয়াচ তৈরি করছে। র‌্যাডোর ‘ডায়াস্টার’ প্রথম স্ক্র্যাচ রেসিসট্যান্ট ওয়াচ। এরাই প্রথম সেরামিক ওয়াচ তৈরি করেছে। র‌্যাডোর পঞ্চাশতম জন্মদিনে ডিজাইনার জেসপার মরিসন ডিজাইন করেন র‌্যাডোর সেরামিকা ক্রোনো।
লঁজিনিও সুইস কোম্পানি। শুধু ঘড়ির যন্ত্রাংশের মান নয়, ডিজাইনেও এদের জগৎজোড়া খ্যাতি। ভারতীয় মূল্যে ৫৬ হাজার টাকা থেকে শুরু।
কার্তিয়ের ফরাসি কোম্পানি। যন্ত্রাংশ সুইজারল্যান্ডের, কিন্তু ডিজাইন করেন প্যারিসের নামী ডিজাইনাররা। শুধু সৌন্দর্যেই নয়, ফরাসি আভিজাত্যের গরিমায় কার্টিয়ের নিঃসন্দেহে পয়লা নম্বরে। এদের অ্যাফোর্ডেবল রেঞ্জ ‘ট্যাঙ্ক’। এছাড়াও সুইডেনের ড্যানিয়েল ওয়েলিংটন, জাপানের সেইকো রয়েছে এ প্রজন্মের পছন্দের তালিকায়।
ক্লাসিক রিস্ট ওয়াচ যাঁরা ভালোবাসেন, তাঁদের নজর দিতে হবে রোলেক্স, ওমেগা, টুডর ইত্যাদি সুইস কোম্পানির রিস্ট ওয়াচে। প্রতিটি কালেকশনের আভিজাত্য দেখে মুগ্ধ হতে হয়। তবে ভারতীয় মূল্য তিন-চার লক্ষ থেকে শুরু!
স্মার্ট ওয়াচ
স্মার্ট ফোনের সঙ্গে স্মার্ট ওয়াচের বেশ মিল আছে। একের মধ্যে বহু রূপ। অ্যাপল, স্যামসাং, জিওমি, ফিটবিট ইত্যাদি কোম্পানির স্মার্ট ওয়াচ বাজারে রয়েছে নানা মডেলে। এতে প্রেশার, হার্টবিট, ক্যালোরি কাউন্ট ইত্যাদি সবই জানা যায়, ফোন কল ও মেসেজ অ্যালার্টও ডায়ালে ভেসে ওঠে। ওই যে বললাম, এক অঙ্গে বহু রূপ! 
21st  November, 2020
কানে নাকে ছোট গয়না

মুখের সাজ সর্ম্পূণ করতে কান আর নাকও গুরুত্বপূর্ণ অংশ। কান-নাক সাজানোর মতো ছোট ছোট গয়নার হদিশ দিচ্ছেন অন্বেষা দত্ত।  
বিশদ

21st  November, 2020
শীতে সুখে থাকুক পা 

শীত এলে মাঝেমধ্যেই পদযুগল জানান দেয় শুষ্কতার খবর। তাই যত্ন নিন পায়ের। কেমন করে? জানালেন মনীষা মুখোপাধ্যায়। 
বিশদ

21st  November, 2020
সেলেব ওয়াচ 

নেশা তো বিচিত্র বস্তু! কখন যে তা আষ্টেপৃষ্ঠে বেঁধে ফেলে বোঝা মুশকিল। এই যেমন বলিউডের শাহেনশা অমিতাভ বচ্চনের কথাই ধরুন। ঘড়ির নেশায় মত্ত। অপ্রয়োজনেও ঘড়ি কেনেন যখন তখন। অথচ সময় দেখেন মোবাইল ফোনে! 
বিশদ

21st  November, 2020
ইক্কত আর ঢাকাই

শ্রী-এর ডিজাইনার শুভশ্রী বসু এবার পরীক্ষানিরীক্ষা করেছেন ব্লাউজ নিয়ে। তাঁর সংগ্রহে রয়েছে ত্রিনয়নী ব্লাউজ। কটন, লিনেন অথবা ইক্কতের মধ্যে ত্রিনয়ন প্রিন্ট করেছেন তিনি। রংগুলো এমন বেছেছেন, যাতে অনেক শাড়ির সঙ্গে পরা যায়। বিশদ

14th  November, 2020
বালুচরির কারুকাজে রেশম, রেডি ধুতি

 এবার আলোর উৎসবকে আরও আলোময়, আরও রঙিন করে তুলতে চেয়েছেন ডিজাইনার শ্যামসুন্দর বসু। তাই তাঁর রাইকিশোরী কালেকশনস-এর দেওয়ালি স্পেশাল লেহেঙ্গা-চোলি সেজেছে বিচিত্র বর্ণের সুতোয় তৈরি সূক্ষ্ম জারদৌসি কারুকাজে। দীপাবলির আলো যাঁরা অঙ্গে ধারণ করতে চান, তাঁদের জন্য ডিজাইনার জারদৌসির সঙ্গে মিশিয়েছেন স্টোনওয়ার্ক। বিশদ

14th  November, 2020
জরির জাঁকজমক

পারমিতা বন্দ্যোপাধ্যায় উৎসবের মরশুমে এনেছেন জমকালো শাড়ি ও অন্য পোশাকের সম্ভার। তিনি বললেন, ‘সবসময় গয়না দিয়েই যে কোনও পোশাক সর্ম্পূণ করতে হবে, এমনটা মনে করি না। বরং পোশাকের টেক্সচার, ফ্যাব্রিক আর লুকে গুরুত্ব দিই।’ বিশদ

14th  November, 2020
দীপাবলিতে ঐতিহ্যের অঙ্গীকার

দীপাবলি আর ভাইফোঁটার ফ্যাশনের সুলুকসন্ধানে সোমা লাহিড়ী  বিশদ

14th  November, 2020
‘কালী-কলকাতা’

আজ কালীপুজো। উৎসবের শেষ বেলায় পোশাকে এসেছে তারই ছোঁয়া। রোশনাইয়ে উজ্জ্বল জমকালো, কখনও বা সাদামাটা প্রিন্টে শাড়ি-সাজ অনন্য। খোঁজ দিচ্ছেন অন্বেষা দত্ত। বিশদ

14th  November, 2020
ডিজিটালে ফ্যাশন শো 

পাঁচ দিনের ‘ল্যাকমে ফ্যাশন উইক ২০২০’-এ তৈরি হয়েছিল রাশি রাশি সৃষ্টিকথা। তফাত একটাই। এবার সামনাসামনি সরগরম নেই। ফ্যাশন শো ডিজিটালে বন্দি। নামীদামি ডিজাইনারদের সমারোহ অবশ্য কমেনি তাতে। মুম্বই থেকে দেবারতি ভট্টাচার্য তুলে দিলেন তারই কিছু মুহূর্ত।  বিশদ

07th  November, 2020
ব্যাগবন্দি স্টাইল 

পোশাকের সঙ্গে মানানসই ব্যাগ না থাকলে কিন্তু সাজ সম্পূর্ণ হয় না। কোন সাজে কেমন ব্যাগ ব্যবহার করবেন সেটা নির্ভর করবে আপনার পোশাক ও অনুষ্ঠানের ধরনের ওপর। ডিজাইনারদের মতামত শোনালেন কমলিনী চক্রবর্তী।  বিশদ

07th  November, 2020
নয়ন ভোলানো 

চোখই মনের আয়না। অন্দরের প্রতিচ্ছবি। তাই তাদের সুন্দর রাখা জরুরি। হরিণের মতো সুন্দর চোখ সবার না থাকলেও মুখের মধ্যে সবচেয়ে সুক্ষ্ম অংশ এটিই। চোখ এবং তার আশপাশের ত্বক সবচেয়ে পাতলা। তাই ওই অংশের যত্ন খুবই গুরুত্বপূর্ণ। 
বিশদ

31st  October, 2020
চোখের খেয়াল 

চোখের আরামের জন্য চাই উপযুক্ত ব্যবস্থা, বললেন আই স্পেশালিস্ট ডাঃ রীতেশ চন্দ্র পাল। কিন্তু কীভাবে নেবেন সেই ব্যবস্থা? চোখের খেয়াল রাখার কিছু নিয়ম বলে দিলেন তিনি। মুখোমুখি কমলিনী চক্রবর্তী। 
বিশদ

31st  October, 2020
ফ্রেম দিয়ে যায় চেনা 

চশমা বা সানগ্লাস সে যা-ই হোক না কেন, ফ্রেম বদলে গেলে মুখের গড়নও নাকি দেখতে লাগে অন্যরকম। কোন মুখে কোন ফ্রেম মানানসই আর কেমন ফ্রেম এখন ফ্যাশনে ‘ইন’, রইল তারই হদিশ।
 
বিশদ

31st  October, 2020
ধুতিতে কাঁথার কাজ 

পুজো উপলক্ষে ‘সেরিনিটি বাই সৈকত’ এনেছে ধুতিতে কাঁথার কাজ। বিশেষত্ব রয়েছে ধুতির মেটিরিয়াল নির্বাচনেও। এখানে শাড়ির থান কেটে তাতে প্রিন্ট করে ধুতি বানানো হয় না। ধুতি তৈরি হয় ধুতির থানেই; তাতে তারপর প্রিন্ট বা কাঁথা কাজ করা হয়। ধাক্কা পাড়ের উপর কাঁথা কাজের ধুতি দেখতে লাগে অসাধারণ, আভিজাত্যই আলাদা। আর ফ্যাব্রিক হিসেবে সুতির ওপরে ভরসা রাখেন ডিজাইনার সৈকত বন্দ্যোপাধ্যায়।
বিশদ

17th  October, 2020
একনজরে
টি-২০ চ্যালেঞ্জারের দ্বিতীয় ম্যাচেও টাউনের কাছে ১৪ রানে হারল ইস্ট বেঙ্গল। টুর্নামেন্টে পরপর দু’ম্যাচে হার অনেকটাই কোণঠাসা করে দিল অর্ণব নন্দীদের। বৃহস্পতিবার প্রথমে ব্যাট করে ৭ উইকেটে ১৪২ রান তোলে টাউন। ...

ফের ‘এক দেশ, এক ভোট’-এর পক্ষে জোর সওয়াল করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। জানিয়ে দিলেন, কয়েক মাস অন্তর ভোট হওয়ার ফলে দেশের উন্নয়ন ব্যাহত হচ্ছে। দেশের ...

সংবাদদাতা, কানকি: কানকিতে সকাল থেকে রাস্তার ধারে জড়ো হয়ে যান কয়েক হাজার কৃষক। সেইসঙ্গে পাইকার, গাড়িচালক, ভ্যানচালক মিলে ভিড়ে ভিড়াক্কার। এতটাই সেই ভিড়ের চাপ যে, ...

সংসদ ও বিধানসভায় ফি বছর প্রথম অধিবেশনের শুরুতে সংবিধানের প্রস্তাবনা পাঠের নিয়ম চালু করার পক্ষে দাবি উঠল। যে সে নন, স্বয়ং রাজ্য বিধানসভার অধ্যক্ষ বিমান ...




আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম ( মিত্র )
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

কর্মপ্রার্থীদের কর্মলাভে কিছু বিলম্ব হবে। প্রেম ভালোবাসায় সাফল্য লাভ ঘটবে। বিবাহযোগ আছে। উত্তপ্ত বাক্য বিনিময় ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৭৯৫- গেরাসিম লেবেদেফের উদ্যোগে কলকাতার মঞ্চে প্রথম অভিনীত হল নাটক
১৮৭৮- কবি যতীন্দ্রমোহন বাগচির জন্ম
১৮৮৮ - কবিপুত্র তথা বিশিষ্ট ভারতীয় বাঙালি কৃষিবিজ্ঞানী,শিক্ষাবিদ ও লেখক রথীন্দ্রনাথ ঠাকুরের জন্ম
১৮৯৫ - বিশিষ্ট বিজ্ঞানী আলফ্রেড নোবেল তাঁর সমস্ত সম্পত্তি উইল করে নোবেল পুরস্কার প্রদানের জন্য তহবিল গঠন করেন।
১৯০৭ - বিশিষ্ট ভারতীয় হিন্দি ভাষার কবি ও লেখক হরিবংশ রাই বচ্চনের জন্ম
১৯১৩- চিত্রশিল্পী চিত্রানিভা চৌধুরির জন্ম
১৯১৪ - ব্রিটেনে প্রথম মহিলা পুলিস নিয়োগ হয়।
১৯৪০- অভিনেতা ও মার্শাল আর্ট শিল্পী ব্রুস লি’র জন্ম
১৯৫২- সুরকার বাপ্পি লাহিড়ির জন্ম
১৯৮৪- অভিনেতা অসিতবরণের মৃত্যু
১৯৮৬- ভারতীয় ক্রিকেটার সুরেশ রায়নার জন্ম
১৯৯২ - এই দিন থেকে ব্রিটেনের রানী আয়কর দিতে শুরু করেন।
২০০৮- ভারতের সপ্তম প্রধানমন্ত্রী ভি পি সিংয়ের মৃত্যু



ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৭৩.০২ টাকা ৭৪.৭৩ টাকা
পাউন্ড ৯৭.১৯ টাকা ১০০.৬২ টাকা
ইউরো ৮৬.৫৩ টাকা ৮৯.৬৮ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ৪৯, ৮৬০ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ৪৭, ৩০০ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ৪৮, ০০০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৬১, ১০০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৬১, ২০০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]

দিন পঞ্জিকা

১১ অগ্রহায়ণ, ১৪২৭, শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০, দ্বাদশী ৪/২৫ দিবা ৭/৪৭। অশ্বিনী নক্ষত্র ৪৫/৫৩ রাত্রি ১২/২৩। সূর্যোদয় ৬/১/৮, সূর্যাস্ত ৪/৪৭/১৬। অমৃতযোগ  ৬/৪২ মধ্যে পুনঃ ৭/২৬ গতে ৯/৩৬ মধ্যে পুনঃ ১১/৪৫ গতে ২/৩৮ মধ্যে পুনঃ ৩/২১ গতে অস্তাবধি। রাত্রি ৫/৪০ গতে ৯/১২ মধ্যে পুনঃ ১১/৫০ গতে ৩/২২ মধ্যে পুনঃ ৪/১৫ গতে উদয়াবধি। বারবেলা ৮/৪২ গতে ১১/২৪ মধ্যে। কালরাত্রি ৮/৫ গতে ৯/৪৫ মধ্যে।  
১১ অগ্রহায়ণ, ১৪২৭, শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০, দ্বাদশী দিবা ৮/১৬। অশ্বিনী নক্ষত্র রাত্রি ১/২৮। সূর্যোদয় ৬/৩, সূর্যাস্ত ৪/৪৭। অমৃতযোগ দিবা ৬/৫৭ মধ্যে ও ৭/৩৯ গতে ৯/৪৬ মধ্যে ও ১১/৫৩ গতে ২/৪৩ মধ্যে ও ৩/২৫ গতে ৪/৪৭ মধ্যে এবং রাত্রি ৫/৪৩ গতে ৯/১৮ মধ্যে ও ১১/৫৯ গতে ৩/৩৪ মধ্যে ও ৪/২৭ গতে ৬/৪ মধ্যে। বারবেলা ৮/৪৪ গতে ১১/২৫ মধ্যে। কালরাত্রি ৮/৬ গতে ৯/৪৬ মধ্যে। 
১১ রবিয়ল সানি।

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
শুভন্দুর পদত্যাগ, বাবা শিশির অধিকারি কী বললেন
শুভেন্দু অধিকারির পদত্যাগ  বিষয়ে এবার মুখ খুললেন তাঁর বাবা তথা ...বিশদ

02:39:12 PM

শুভেন্দুর পদত্যাগ, কী বললেন ভাই দিব্যেন্দু অধিকারি ?
শুভেন্দু অধিকারির মন্ত্রিত্ব ছাড়ার বিষয়ে টেলিফোনে তাঁর ভাই তথা তৃণমূলের ...বিশদ

01:58:20 PM

মন্ত্রিত্ব থেকে পদত্যাগ  করলেন শুভেন্দু অধিকারি
পরিবহণমন্ত্রী ও সেচমন্ত্রীর পদ থেকে  ইস্তফা দিলেন শুভেন্দু অধিকারি। আজ ...বিশদ

01:33:00 PM

১ম ওডিআই: ভারতকে ৩৭৫  রানের টার্গেট দিল অস্ট্রেলিয়া

01:24:40 PM

কঙ্গনার পাশেই আদালত, খারিজ বিএমসি-র অভিযোগ
আজ, শুক্রবার কঙ্গনার পক্ষেই রায় দিল বম্বে হাইকোর্ট। স্বস্তি পেলেন ...বিশদ

12:52:13 PM

১ম ওডিআই: অস্ট্রেলিয়া ২৮১/৩ (৪২ ওভার)

12:39:45 PM