Bartaman Patrika
অমৃতকথা
 

 আত্মভোলা বাঙালী জাতি

বাংলার বিশেষ সম্পৎ শক্তির উপাসনা। গৌড়ীয়া-বিদ্যা তন্ত্রের আর এক নাম। বর্ত্তমানে তন্ত্রবিষয়ে গবেষণা বা আলোচনা নাই বলিলেই হয়। আত্মভোলা বাঙালী জাতি নিজ সম্পদ্‌ সম্বন্ধে যদিও একেবারে উদাসীন, তাহা সত্ত্বেও তন্ত্রের সাধনার ধারা একেবারে মৃত নহে। আমাদের স্মরণকালের মধ্যেই রামপ্রসাদ, বামাক্ষেপা ও ঠাকুর রামকৃষ্ণ পরমহংসদেব তন্ত্রধারায় সিদ্ধিলাভ করিয়া এই সাধনাকে উজ্জ্বল করিয়াছেন। শক্তিবাদ তন্ত্রবিজ্ঞানের বিরাট দান। দার্শনিক দ্বৈতবাদ বা অদ্বৈতবাদের মত শক্তিবাদ একটা মতবাদ নহে। কারণ, ইহা বৈজ্ঞানিক ভিত্তির উপর প্রতিষ্ঠিত। দার্শনিক মতবাদের ভিত্তি তর্ক, বিচার ও শাস্ত্রীয় প্রমাণ। বৈজ্ঞানিক মতবাদের ভিত্তি পরীক্ষিত সত্য। ব্যক্তিগত অনুভূতি ও সর্ব্বজনীন অনুভূতি। কোন বিশেষ ব্যক্তির নিজস্ব অনুভূতির সত্যতা প্রতিষ্ঠিত করিতে বিচার, তর্ক ও যুক্তির প্রয়োজন হয়। যাহা সর্ব্বজনীন তাহা ব্যক্তিনিরপেক্ষ, অন্য প্রমাণের অপেক্ষা স্বতঃপ্রমাণ বলিয়া উহা অখণ্ডনীয়। শক্তিবাদ অনুরূপ একটি অখণ্ডনীয় সিদ্ধান্ত।
শক্তিবাদের প্রথম সিদ্ধান্ত শক্তি আছে। ইহা সকলের অনুভববেদ্য। ব্রহ্ম, আত্মা বা ঈশ্বর আছেন ইহা সাধারণের অনুভবের অতীত, যুক্তিতর্কের দ্বারা স্থাপন করিতে হয়—তীক্ষ্ণতর যুক্তির দ্বারা আবার উহা খণ্ডিতও হইতে পারে। শক্তিবাদ সেরূপ নহে, ইহা অখণ্ডনীয়। শক্তি নাই বলিবার সামর্থ্য কাহারও নাই। শক্তি অস্বীকার করিতেও শক্তির প্রয়োজন। শক্তিবাদ খণ্ডন করিতে বুদ্ধিশক্তি, বিচারশক্তি, বাক্‌শ঩ক্তির দ্বারস্থ হইতে হইবে। ভগবান্‌ আ঩ছেন আপত্তি হইতে পারে, শক্তি আছে ইহাতে আপত্তি করা যায় না। সুতরাং দেখা যাইতেছে যে, শক্তিবাদ খণ্ডন করিতে গিয়া যে-বস্তুর আশ্রয় লইতে হইতেছে তাহাও শক্তি। অতএব উহার অস্তিত্ব অনস্বীকার্য্য।
শক্তি আছে, ইহা শক্তিবাদের চরম কথা নহে। শক্তিবাদের অন্তরের কথা, একমাত্র শক্তিই আছে, নিখিল বিশ্বে শক্তি ছাড়া আর কিছুই নাই। জগতের প্রত্যেক বস্তুই শক্তির সমবায় (Conglomeration of energy) বস্তুমাত্রই শক্তি ভিন্ন আর কিছু নহে। এক একটি বস্তু, শক্তির এক এক ধরণের প্রকাশ। ‘যা দেবী সর্ব্বভূতেষু শক্তিরূপেণ সংস্থিতা’—দেবী মহাশক্তি সর্ব্বভূতে শক্তিরূপেই বিরাজিতা— ইহাই তন্ত্রের মহতী ঘোষণা। পাশ্চাত্ত্য বিজ্ঞানের সহিত তন্ত্রের এই সিদ্ধান্তের সাদৃশ্য বিস্ময়কর বলিলেও অত্যুক্তি হয় না। নিউটন সাহেবের সময় হইতে তিনশত বর্ষের জয়যাত্রার মধ্য দিয়া আজ বৈজ্ঞানিকেরা যে সিদ্ধান্তে পৌঁছিয়াছেন, উহা একান্তভাবে তন্ত্রের এই সিদ্ধান্তকে সমর্থন করে। পারমাণবিক আবিষ্ক্রিয়ার ফলে একটি সূক্ষ্মাতিসূক্ষ্ম পরমাণুর মধ্যে যে প্রচণ্ড শক্তির খেলা প্রত্যক্ষ করা যায় তাহাতে বস্তু (matter) সম্বন্ধে আমাদের ধারণার আমূল পরিবর্ত্তন সাধিত হইয়াছে। বস্তুমাত্রই যে শক্তির সমবায় উহাতে এখন আর কাহারও সংশয় নাই।
শক্তিবাদের তৃতীয় কথা, সর্ব্বভূতে অর্থাৎ এই নিখিল বিশ্বচরাচরে একটিমাত্র শক্তিই আছে। বহু যে দেখি—তাপ (heat), আলো (light), বৈদ্যুতিক শক্তি (electricity)—উহা দৃষ্টির ভ্রমবশতঃই। বৈজ্ঞানিক দৃষ্টি লইয়া দেখিলে সবই একই শক্তির অভিব্যক্তি বলিয়া জ্ঞান হয়। কিছুদিন পূর্ব্বেও পরমাণু (atom) জগতের মূল কারণ— বিজ্ঞানের এইরূপ সিদ্ধান্ত ছিল। কিন্তু আজ এই মতের পরিবর্ত্তন হইয়াছে। সকল বস্তুই যে এক শক্তির পরিণতি, ইহা এখন সর্ব্ববাদিসম্মত বৈজ্ঞানিক সিদ্ধান্ত। আলো, তাপ, বিদ্যুৎ প্রভৃতির মূলে যে একটি মাত্র শক্তি বিদ্যমান, ইহা আজ বিশেষভাবে প্রমাণিত হইয়াছে। বহুকালের গবেষণার পর পাশ্চাত্ত্য-বিজ্ঞান আজ যে সিদ্ধান্তে পৌঁছিয়াছে—বিশ্বের মূলে একই শক্তি কাজ করিতেছে, ইহা ভারতীয় তন্ত্রশাস্ত্রী বহু পূর্ব্বেই দ্বিধাহীনকণ্ঠে ঘোষণা করিয়াছে।
মহানামব্রত ব্রহ্মচারীর ‘চণ্ডী চিন্তা’ থেকে
31st  August, 2019
ভারতের ঐতিহ্য চিরস্থায়ী

শ্রীশ্রীবাবামণি বলিলেন,—ভারতের প্রত্যেক নরনারী তোমার পিতা, তোমার মাতা, তোমার ভ্রাতা, তোমার ভগ্নী, তোমার পুত্র, তোমার কন্যা। বিকারের বিষে তার মস্তিষ্ক আচ্ছন্ন ব’লেই কি তুমি তাকে ঘৃণা কর্ব্বে, না পরিত্যাগ কর্ব্বে? 
বিশদ

পদসেবা

একদিন দক্ষিণেশ্বর-মহাতীর্থে শ্রীশ্রীঠাকুর রামকৃষ্ণের পদসেবা করিতে করিতে শ্রীসারদাদেবী জিজ্ঞাসা করিলেন: “আমাকে তোমার কি ব’লে মনে হয়?” শ্রীশ্রীঠাকুর বলিয়াছিলেন: “যে মা মন্দিরে আছেন, যিনি এই শরীরের জন্ম দিয়েছেন ও এখন নহবতে বাস করছেন, তিনিই এখন আমার পদসেবা করছেন।
বিশদ

25th  July, 2021
পাপ

“মানুষ কেন পাপ করে! কেন পাপে মলিন হয়ে যায়! পাপে ঘৃণা হয় না কেন! হরিনামেও পাপ চিন্তা! কী আশ্চর্য! কলির কী ছলনা! কীট-কুহকে দূরে লয়ে যায়। তবু মানুষ হরিনাম করে না।
বিশদ

23rd  July, 2021
অস্তিত্ব

যাঁহার অস্তিত্বে আমাদের অস্তিত্ব, যাঁহার শক্তিতে কার্য্যকরী সমস্ত শক্তি আমাদের মধ্যে সঞ্চারিত, সেই অনির্ব্বণীয় আত্মাব্রহ্ম অর্দ্ধনারীশ্বররূপে আছেন জীবে জীবে। তিনিই জনক তিনিই জননী! লীলা করিতেই তিনি স্ত্রীপুরুষভাবে ভাবিত হইয়া হইয়াছেন অনন্ত জীবমিথুনের স্রষ্ট্রা। বিশদ

22nd  July, 2021
ভক্ত ভগবানের লীলা প্রসঙ্গ

এ পৃথিবীতে সকলেই বারবার আসছি। এর কারণ কি? যদি বলা যায় যে এ পৃথিবীই হলো মানুষ আসবার জগৎ, তাহলে তো বলতে হয় এই স্থূল দেহ ধরবার জন্য এ ব্রহ্মাণ্ডে কি অন্য কোন জগৎ নেই? আমরা সকলেই শুনেছি যে এই পৃথিবীর ন্যায় অসংখ্য জগৎ নাকি আরও আছে। বিশদ

21st  July, 2021
‘সত্যং জ্ঞানমনন্তং ব্রহ্ম’

‘সত্যং জ্ঞানমনন্তং ব্রহ্ম’। সত্য কী?—না, ঘটনাটা যা তার স্বীকৃত রূপটাকে বলে সত্য। ইংরেজী veracity শব্দের আসল অর্থ হ’ল, বাস্তব ঘটনা। এখন জ্ঞানটা কী?
বিশদ

19th  July, 2021
মায়া

সমাজবদ্ধ জীব আমরা। নানাবিধ দুঃখে দুঃখী। পারিবারিক, সামাজিক, রাষ্ট্রীয়, নানাবিধ দুঃখ-তাপে আমরা সন্তাপিত। সকলেই সর্বদা এই দুঃখ থেকে নিষ্কৃতি পেতে চায়।
বিশদ

18th  July, 2021
মূর্তি

সর্বেশ্বর ব্রহ্ম ও সর্বেশ্বরী মহামায়া আদিমিথুনকেই পুরুষ-প্রকৃতি, রাধা-শ্যাম, লক্ষ্মী-নারায়ণ, সীতা-রাম, শিব-কালী, হর-পার্বতী প্রভৃতি যুগল মূর্তি রূপে ভক্তবৃন্দ নিজ রুচিভেদে সকাম বা নিষ্কাম ভাবে আরাধনা করেন। সব উপাসনাই একই ব্রহ্মের উপাসনা। দেবতার মূর্তিভেদে উপাসকের নাম বৈষ্ণব, শৈব ও শাক্ত হয় মাত্র।
বিশদ

17th  July, 2021
মানুষ

মানুষ কোন অবস্থাতেই স্বাধীন নয়। প্রথম তো প্রকৃতির অধীন তারপরই ঈশ্বরাধীন। প্রকৃতির অধীন থেকে ঈশ্বরাধীন হয়ে যদি কাজ করতে পার—যদি আমার নিমিত্ত মাত্র হয়ে কাজ করতে পার তাহলে বেঁচে গেলে।
বিশদ

16th  July, 2021
লীলা

শ্রীকৃষ্ণের নিত্যলীলা নিত্যকালেই আছে। ঐ লীলা অনন্ত ব্রহ্মাণ্ডে বিচরণ করিয়া বেড়ায়। পাঁচ হাজার বৎসর পূর্বে ঐ লীলা এই পৃথিবীকে স্পর্শ করিয়াছিল। ‘স্পর্শক’ (যাহার ইংরাজী নাম tangent) যেমন বৃত্তের পরিধিকে স্পর্শ করিয়াছিল তাহার নাম বৃন্দাবন ধাম। বিশদ

15th  July, 2021
বহিরঙ্গনে

কিছু মানুষ আছেন, যাঁরা মনে করেন ধর্মের আহ্বান তাঁরা শুনতে পেয়েছেন। তাঁরা সাংসারিক কর্ম ছেড়ে, প্রতিশ্রুত ধর্মপথ অবলম্বন করেন। কেউ বা সাময়িক উদ্দীপনাবশতঃ কোনও মঠে গিয়ে বৈরাগ্যের পথ অবলম্বন করতে চান। কিন্তু অনেক সময় এমন দেখা যায়, তাঁদের অনেকেই ধর্ম ও সন্ন্যাসজীবনের জন্য অনুপযুক্ত। বিশদ

14th  July, 2021
রাজপথ

যে পথে সকলের গমনের অধিকার আছে তাকেই রাজপথ বলে। প্রাণায়াম সাধনই রাজপথ, সেজন্য একে রাজযোগ বলে। এই সাধনপথে সকলেই গমন করতে পারেন। বিশদ

13th  July, 2021
বেদান্ত

বেদান্তের আদর্শ হ’ল জীবনসমস্যার সমাধান করা, মানবজীবনে উদ্দেশ্য নির্দেশ করা, মানুষের জীবনযাপনকে উন্নত করা, আর যে বিশ্ব-ইচ্ছাশক্তি প্রকৃতির মধ্যে ক্রিয়াশীল রয়েছে, তার সাথে মানবজীবনকে অধিকতর সামঞ্জস্যপূর্ণ করা। বিশদ

10th  July, 2021
ভাগবত

কল্পনা করো, আমরা নৈমিশারণ্যে ঋষিদের সঙ্গে বসে সূতমুনির মুখে ভাগবত শুনছি। ভগবানের চরণনিঃসৃত জল যেমন তিনলোক পবিত্র করে—স্বর্গের মন্দাকিনী, মর্তের ভাগীরথী ও পাতালের ভোগবতী হয়ে, তেমনি ভগবানের কথারূপ গঙ্গাও তিন লোককে পবিত্র করে বিশদ

09th  July, 2021
জ্ঞান

শাস্ত্রের মধ্যে সাধক কি প্রত্যাশা করবেন? শ্রীরামকৃষ্ণ বলতেন: ‘‘শাস্ত্র পড়ে হদ্দ অস্তিমাত্র বোধ হয়।’’ আবার বলেছেন: ‘‘শাস্ত্রে আভাসমাত্র পাওয়া যায়।’’ শাস্ত্র পথনির্দেশক বৈ তো নয়। শ্রীরামকৃষ্ণ বলেছেন: ‘‘শাস্ত্র, বই এসব কেবল ঈশ্বরের কাছে পহুঁছিবার পথ বলে দেয়।’’ শ্রীরামকৃষ্ণ সর্বদাই অনুভূতির উপর গুরুত্ব দিয়েছেন। বিশদ

08th  July, 2021
মন্ত্রাঃ মননাৎ

উপনিষৎ বলছেন—‘‘মন্ত্রাঃ মননাৎ’’ অর্থাৎ যার দ্বারা মনন (চিন্তন) করা যায় তাকে মন্ত্র বলে। মন্ত্র শব্দটিতে দুইটি ভাগ আছে যথা—‘মন্‌’ ও ‘এ’। মন্‌ শব্দটি ‘‘মনন্‌’’ অর্থক এবং ‘‘এ’’ শব্দটি ত্রাণবোধক। তজ্জন্য শাস্ত্র বলছেন—‘‘মননাৎ ত্রায়তে যস্মাত্তস্মান্মন্ত্রঃ প্রকীর্ত্তিতিঃ।’’ যার মনন দ্বারা বিশ্বজ্ঞান লাভ করা যায় এবং সংসার বন্ধন থেকে মুক্তি পাওয়া যায় তাকেই মন্ত্র বলা হয়। বিশদ

07th  July, 2021
একনজরে
করোনা পরিস্থিতিতে দু’বছরের বেশি সময় ধরে বন্ধ রয়েছে স্কুল। জ্বালানি তেলের দামও প্রতিনিয়ত বেড়েই চলেছে। এই পরিস্থিতিতে চরম সঙ্কটে পড়েছেন পুলকার মালিকরা। বাধ্য হয়ে কেজি ...

মন্ত্রী সাবিনা ইয়াসমিনের সই জাল করে চাকরির সুপারিশ! তা আবার করা হয়েছে তাঁরই বিধায়ক প্যাড ব্যবহার করে। সোমবার এমনই চাঞ্চল্যকর খবর ছড়িয়ে পড়ে সোশ্যাল মিডিয়ায়। ...

মালদহে ২০১৭’র বন্যায় ঘরবাড়ি ক্ষতি হওয়া দুর্গতদের আর্থিক ত্রাণ দেয় সরকার। মালদহের হরিশচন্দ্রপুর-১ নম্বর ব্লকের বরুই পঞ্চায়েতে সেই ত্রাণ বণ্টনে বড়সড় দুর্নীতির অভিযোগ সামনে আসে। ...

২০১৮ সালের ১৫ আগস্ট প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ঘোষণা করেছিলেন মহাকাশে মানুষ পাঠাবে ভারত। লক্ষ্য ছিল ২০২২ সালের শেষের দিক। ...




আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম ( মিত্র )
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

ঝগড়া এড়িয়ে চলা প্রয়োজন। শরীর-স্বাস্থ্য বিষয়ে অহেতুক চিন্তা করা নিষ্প্রয়োজন। আজ আশাহত হবেন না কোনও ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৮৪৪: ব্রিটিশ বিজ্ঞানী জন ডালটনের মৃত্যু
১৯৫৫: অস্ট্রেলিার ক্রিকেটার অ্যালান বর্ডারের জন্ম
১৯৬০: শিবসেনা প্রধান উদ্ধব থ্যাকারের জন্ম
১৯৬৯: দক্ষিণ আফ্রিকার জন্টি রোডসের জন্ম
১৯৯২: অভিনেতা আমজাদ খানের মৃত্যু
১৯৯৬: আটলান্টা ওলিম্পিকস চলাকালীন সেন্ট্রাল ওলিম্পিক পার্কে বিস্ফোরণে হত ১ মহিলা, আহত ১১১
২০১৫: প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি এপিজে আবদুল কালামের মৃত্যু 



ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৭৩.৬৭ টাকা ৭৫.৩৯ টাকা
পাউন্ড ১০০.৭১ টাকা ১০৪.২৩ টাকা
ইউরো ৮৬.১৯ টাকা ৮৯.৩৭ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ৪৮,৭০০ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ৪৬,২০০ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ৪৬,৯০০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৬৭,৮০০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৬৭,৯০০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]

দিন পঞ্জিকা

১১ শ্রাবণ, ১৪২৮, মঙ্গলবার, ২৭ জুলাই ২০২১। চতুর্থী ৫৩/১৮ রাত্রি ২/২৯। শতভিষা নক্ষত্র ১২/৪০ দিবা ১০/১৪। সূর্যোদয় ৫/৯/৩৯, সূর্যাস্ত ৬/১৬/৩১। অমৃতযোগ দিবা ৭/৪৬ গতে ১০/২৪ মধ্যে পুনঃ ১/২ গতে ২/৪৭ মধ্যে পুনঃ ৩/৩৯ গতে ৫/২৫ মধ্যে। রাত্রি ৭/১ মধ্যে পুনঃ ৯/১১ গতে ১১/২১ মধ্যে। পুনঃ ১/৩১ গতে ২/৫৮ মধ্যে। বারবেলা ৬/৪৮ গতে ৮/২৬ মধ্যে পুনঃ ১/২১ গতে ৩/০ মধ্যে। কালরাত্রি ৭/৩৮ গতে ৮/৫৯ মধ্যে। 
১০ শ্রাবণ, ১৪২৮, মঙ্গলবার, ২৭ জুলাই ২০২১। চতুর্থী শেষরাত্রি ৪/৩৩। শতভিষা নক্ষত্র দিবা ১২/৫৯। সূর্যোদয় ৫/৮, সূর্যাস্ত ৬/২০। অমৃতযোগ দিবা ৭/৫০ গতে ১০/২৪ মধ্যে ও ১২/৫৮ গতে ২/৪১ মধ্যে ও ৩/৩২ গতে ৫/১৫ মধ্যে এবং রাত্রি ৬/৫১ মধ্যে ও ৯/৫ গতে ১১/১৯ মধ্যে ও ১/৩৩ গতে ৩/২ মধ্যে। বারবেলা ৬/৪৭ গতে ৮/২৬ মধ্যে ও ১/২৩ গতে ৩/২ মধ্যে। কালরাত্রি ৭/৪১ গতে ৯/২ মধ্যে। 
১৬ জেলহজ্জ।

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
ভাড়া বৃদ্ধির দাবিতে এবার ধর্মঘটের পথে ট্যাক্সিও
বাস-অ্যাপ ক্যাবের পর এবার ভাড়া বৃদ্ধির দাবিতে সরব ট্যাক্সিও। দ্রুত ...বিশদ

01:47:46 PM

বর্ধমান স্কুলের প্রাথমিক বিভাগের প্রধান শিক্ষকের হাতে ইনসাস রাইফেল, চাঞ্চল্য 

01:41:46 PM

হরিশ্চন্দ্রপুরে অনাস্থা আনাকে কেন্দ্র করে তৃণমূলের দুই গোষ্ঠীর মধ্যে গোলমাল 
হরিশ্চন্দ্রপুর-২ ব্লকের দৌলতনগর পঞ্চায়েতে অনাস্থা আনাকে কেন্দ্র করে তৃণমূলের দুই ...বিশদ

01:38:23 PM

খড়্গপুরের হিজলিতে বনদপ্তরের অফিসে ভাঙচুরের অভিযোগ 

01:34:13 PM

ভাটপাড়ায় শ্যুটআউট, যুব তৃণমূল নেতাকে লক্ষ্য করে গুলি
 

ফের ভাটপাড়ায় শ্যুটআউট। যুব তৃণমূল নেতা চন্দন দাসকে লক্ষ্য করে ...বিশদ

11:49:02 AM

বিয়ের মাস কয়েক বাদেই গৃহবধূর রহস্যমৃত্যু ঘোলায়
প্রেম করেই বিয়ে করেছিলেন। জীবন চলছিল স্বাভাবিক ছন্দেই। হঠাৎ ছন্দপতন। ...বিশদ

11:46:43 AM