Bartaman Patrika
শিল্প -বাণিজ্য
 

ঘি, পনির, পেঁড়া, লস্যির পর
বাজারে টক দই নিয়ে আসছে ইছামতী, বিভিন্ন এলাকায় খুলবে নতুন বিপণি 

বিশ্বজিৎ মাইতি  বারাসত, বিএনএ: ভেজাল দুগ্ধজাত পণ্যের রমরমা কারবারের মধ্যে খাঁটি ঘি, পনির, পেঁড়া ও লস্যি বিক্রি করে কয়েক বছরের মধ্যে নিজস্ব পরিচিতি তৈরি করেছে ইছামতী কোঅপারেটিভ মিল্ক প্রোডিউসার ইউনিয়ন লিমিটেড। সামনের গরমের মরশুমে টক দই এনে বড় বড় সংস্থার দইয়ের ব্যবসাতেও থাবা বসাতে চাইছে ইছামতী। শুধু সামগ্রী তৈরি নয়, জেলার বিভিন্ন পুরসভা, গুরুত্বপূর্ণ বাজার ও অফিসে কিয়স্ক খুলে মানুষের কাছে খাঁটি সামগ্রী পৌঁছে দেওয়ার পাশাপাশি আর্থিক ভিত্তিও মজবুত করতে চাইছে এই সংস্থা। সেই লক্ষ্যে বেঁড়াচাপার প্রোডাকশন ইউনিটকে যুদ্ধকালীন তৎপরতায় সাজিয়ে তোলার কাজ শুরু করা হয়েছে। আধিকারিকদের দাবি, সংস্থার আর্থিক মেরুদণ্ড শক্তিশালী হলে জেলার দুগ্ধ উৎপাদকরাও উপকৃত হবেন।
সংস্থার ম্যানেজিং ডিরেক্টর কৌশিক নন্দী বলেন, ইছামতী মিল্ক ইউনিয়নকে আর্থিকভাবে দৃঢ় ভিতের উপর দাঁড় করানোর পাশাপাশি জেলার প্রত্যেকটি মানুষের কাছে খাঁটি দুগ্ধজাত সামগ্রী পৌঁছে দিতে আমরা বদ্ধপরিকর। জেলার চাষিদের উৎপাদিত খাঁটি দুধ থেকে উৎপাদিত সামগ্রী জেলাবাসীর কাছে নির্দিষ্ট দামে পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্যে আমরা সেলস কাউন্টার বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছি। বিভিন্ন পুরসভা, হাসপাতাল, বিডিও অফিস সহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ বাজারে কিয়স্ক তৈরি করে সামগ্রী বিক্রি করা হচ্ছে। আয় বাড়লে জেলা চাষিরাই উপকৃত হবেন।
স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, ইছামতী কোঅপারেটিভ মিল্ক প্রোডিউসার ইউনিয়ন লিমিটেডে দুধ দেন জেলার প্রায় ১৪ হাজার মানুষ। প্রতিদিন দুধ সংগ্রহ করা হয় প্রায় ১০ থেকে ১১ হাজার লিটার। এর মধ্যে সিংহভাগ দুধ মাদার ডেয়ারিকে দিয়ে দেওয়া হয়। জেলাবাসীর কাছে সঠিক দামে খাঁটি দুগ্ধজাত সামগ্রী পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্যে কয়েক বছর আগে বেড়াচাঁপায় দুগ্ধজাত সামগ্রী তৈরির ইউনিট করা হয়। বর্তমানে প্রতিদিন প্রায় ৩০০০ লিটার দুধ থেকে দুগ্ধজাত সামগ্রী তৈরি করা হয়। বাজারের সঙ্গে তাল মিলিয়ে ঘির দাম রাখা হয়েছে ৫২৫ টাকা কেজি, পনির কেজি ৩০০ টাকা ও ২০০ গ্রামের লস্যির দাম রাখা হয়েছে ১৫ টাকা। স্বাদ-গুণ নিয়ে গ্রাহক মহলে প্রশ্ন না উঠলেও ইছামতীর সামগ্রী চাইলেই পেতেন না জেলাবাসী। কারণ, শুধুমাত্র বারাসত আদালত লাগোয়া সংস্থার মূল কার্যালয়ের সামনে একটি মাত্র সেলস কাউন্টার ছিল। এছাড়া ৩৬ জন ডিস্ট্রিবিউটর ছিলেন। কিন্তু, সরকারি ব্যবস্থাপনায় সঠিক সময়ে ডিস্ট্রিবিউটরের কাছে সামগ্রী পৌঁছে দেওয়া, অর্ডার অনুযায়ী সাপ্লাই দেওয়ার ক্ষেত্রে বেসরকারি সংস্থার তুলনায় অনেকটাই ঘাটতি ছিল বলে অভিযোগ।
এবার সংস্থার আয় বৃদ্ধির লক্ষ্যে জেলার বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পুরসভা, বিডিও অফিস, হাসপাতাল ও গুরুত্বপূর্ণ বাজারে কিয়স্ক খোলার পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে। কিয়স্ক চালু হলে বেকারদের যেমন কর্মসংস্থান হবে, তেমন বিক্রিও একলাফে অনেকটাই বাড়বে। জানুয়ারি মাসে গাইঘাটা বিডিও অফিসে নতুন কিয়স্কের উদ্বোধনের পর বিক্রি দেখে আধিকারিকরাও উৎসাহিত হয়েছেন। কারণ, মাত্র ৪০ দিনে ১ লক্ষ ৪ হাজার টাকার ঘি ও পেঁড়া বিক্রি হয়েছে। এখনও গাইঘাটায় পনির ও লস্যি পাঠানো শুরু হয়নি। লস্যি ও পনির গেলে দ্বিগুণের বেশি টাকার বিক্রি হত বলে দাবি আধিকারিকদের। এই কারণে, জেলার বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে সরকারি সংস্থার তৈরি দুগ্ধজাত সামগ্রী পৌঁছে দেওয়ার উদ্যোগ নিচ্ছে জেলা প্রশাসন।
ইতিমধ্যে সংস্থার তরফে বারাসত পুরসভা, বারাসত জেলা হাসপাতাল সহ বিভিন্ন সরকারি দপ্তরকে কিয়স্ক খোলার জন্য চিঠিও দেওয়া হয়েছে। উৎসাহী বেকার যুবক যুবতীরাও নিজে উদ্যোগে ডিস্ট্রিবিউটরশিপ নিতে পারেন বা কিয়স্ক খুলতে পারেন। সেকারণে সংস্থার ওয়েবসাইটে বিজ্ঞাপনও দেওয়া হয়েছে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক জেলা প্রশাসনের এক আধিকারিক বলেন, ইছামতীর দুগ্ধজাত সামগ্রী যে কোনও বেসরকারি কোম্পানিকে দশ গোল দিতে পারে। কারণ, সরকারি ব্যবস্থাপনায় ভেজালের কোনও বিষয় নেই। কিন্তু, বেশ কিছু জটিলতা ও উদ্যোগের ঘাটতির কারণে ইছামতীর ব্র্যান্ডিং সেইভাবে হয়নি ও সেলস কাউন্টারও সেইভাবে নেই। নতুন করে উদ্যোগ নেওয়া গেলে ইছামতী রাজ্যের যে কোনও মিল্ক ইউনিয়নের কাছে মডেল হতে পারে। 

18th  February, 2020
 লকডাউনের মধ্যে সৃষ্টিশীলতায়
চমকে দিচ্ছেন অনেকেই
প্রশংসা সোশ্যাল মিডিয়ায়

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: লকডাউনে কেউ হুজুগে মাতছেন, কেউ সৃজনশীল সত্ত্বাকে ঝালিয়ে নিচ্ছেন। আগে যেটা পরিবার-পরিজন বা হাতেগোনা বন্ধুবান্ধব দেখতে পেতেন, এখন সোশ্যাল মিডিয়ার দৌলতে তা পৌঁছে যাচ্ছে হাজার হাজার মানুষের কাছে। তাই বাড়তি মোটিভেশনও পাচ্ছেন এই শিল্পীরা। কেউ ইন্ডোর ফোটোগ্রাফি, কেউ থিয়েটার, কেউ স্টোন পেইন্টিং বা পেন স্কেচ কিংবা ডুডলের মতো আর্ট ফর্মে ছড়িয়ে দিচ্ছেন প্রতিভা।
বিশদ

 সোনার চাহিদা ৩০ শতাংশ কমার আশঙ্কা, শিল্প বাঁচাতে কেন্দ্রকে আর্জি

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: এবছর দেশজুড়ে সোনার চাহিদা ৩০ শতাংশ কমবে বলে মনে করছে স্বর্ণশিল্প মহল। তাদের বক্তব্য, এদেশের সোনার মূল চাহিদা তৈরি হয় বিয়েকে কেন্দ্র করে।
বিশদ

পোলট্রি মুরগির চাষ কমলেও
ডিমের উৎপাদন স্বাভাবিক

 সুখেন্দু পাল, বহরমপুর, বিএনএ: করোনার ধাক্কায় রাজ্যে পোলট্রি মুরগির চাষ কমলেও ডিমের উৎপাদন স্বাভাবিক রয়েছে। আতঙ্কে অনেক ব্রয়লার মুরগির ফার্ম ফাঁকা হয়ে গিয়েছে। কিছুদিন আগে কম দামে অনেকেই মুরগি বিক্রি করেছেন। বিশদ

09th  April, 2020
লকডাউনে নাভিশ্বাস আবাসন শিল্পে,
ক্রেডাই চিঠি দিল প্রধানমন্ত্রীকে

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: লকডাউনের জেরে অন্যান্য শিল্পের পাশাপাশি নাভিশ্বাস উঠেছে আবাসন শিল্পেও। প্রবল আর্থিক চাপের মধ্যে পড়েছে তারা। এই অবস্থায় সুরাহা পেতে কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে আর্থিক ত্রাণের আর্জি জানাল আবাসন নির্মাতাদের সংগঠন ক্রেডাই।   বিশদ

09th  April, 2020
করোনার গ্রাসে চৈত্র সেলের বাজার
নববর্ষে গয়নার বিক্রিও এবার লোপাট
আগে প্রাণ, পরে লাভক্ষতি, বলছেন ব্যবসায়ীরা

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: এখন চৈত্র মাস। অন্যান্য বছর এই সময় পুরোদমে সেলের মরশুম চলে। আর দিন কয়েক পেরলে, বাংলার নতুন বছরের সূচনা। তার সঙ্গে যতটা আবেগ জড়িয়ে আছে বাঙালির, ততটাই রয়েছে ব্যবসায়িক দিক।
বিশদ

05th  April, 2020
 লকডাউনে এবার অর্ডার মেলেনি,
লাটে উঠেছে ক্যালেন্ডারের ব্যবসা

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: লকডাউনের জেরে বাংলার ঐতিহ্যবাহী নববর্ষ উৎসবকে কেন্দ্র করে চলা ক্যালেন্ডারের ব্যবসা মাটি হয়ে গিয়েছে। বড়বাজারের ক্যালেন্ডার ব্যবসায়ীদের মাথায় হাত। ফি বছর চৈত্র মাসের এই সময় বড়বাজারের ক্যানিং স্ট্রিট, এস এন রোড, পুরুষোত্তম রায় স্ট্রিট, পগেয়াপট্টি প্রভৃতি এলাকায় ক্যালেন্ডার ব্যবসায়ীদের নাওয়া-খাওয়ার সময় থাকতো না।
বিশদ

05th  April, 2020
শেয়ার বাজার দর

  ন্যাশনাল স্টক এক্সচেঞ্জে যেসব সংস্থার শেয়ার গতকাল লেনদেন হয়েছে শুধু সেগুলির বাজার বন্ধকালীন দরই নীচে দেওয়া হল। বিশদ

04th  April, 2020
কেয়ার্স ফান্ডে একদিনের
বেতন ইসরো কর্মীদের

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: করোনা মোকাবিলায় এবার সাহায্যের হাত এগিয়ে দিলেন ভারতীয় মহাকাশ গবেষণা কেন্দ্রের (ইসরো) বিজ্ঞানী এবং অন্যান্য আধিকারিক-কর্মীরা। নিজেদের একদিনের বেতন প্রধানন্ত্রীর কেয়ার্স ফান্ডে দিয়েছেন তাঁরা। শুক্রবার ইসরোর পক্ষ থেকে এ’কথা জানানো হয়েছে।
বিশদ

04th  April, 2020
মাস্ক, স্যানিটাইজার মেলায় ফের
সচল রাজ্যের রাইস মিলগুলি

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: রাইস মিলগুলিতে যাতে স্বাভাবিক কাজকর্ম শুরু হয়, তার জন্য রাজ্য সরকার কয়েকদিন আগে প্রায় ১০ হাজার মাস্ক ও স্যানিটাইজার দেওয়ায় পরিস্থিতির উন্নতি হয়েছে। করোনা সংক্রমণের আশঙ্কায় রাইস মিলগুলিতে কর্মরত ভিনরাজ্যের শ্রমিকদের বেশিরভাগই বাড়ি চলে গিয়েছেন।
বিশদ

04th  April, 2020
জিএসটি: ২৮৭৫ কোটি টাকা
চেয়ে কেন্দ্রকে চিঠি রাজ্যের 

নিজস্ব প্রতিনিধি, নয়াদিল্লি, ২ এপ্রিল: জিএসটি ক্ষতিপূরণ বাবদ বকেয়া ২ হাজার ৮৭৫ কোটি এখনই রাজ্যকে দেওয়া হোক। আজ এই মর্মে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামনকে চিঠি দিলেন পশ্চিমবঙ্গের অর্থমন্ত্রী অমিত মিত্র।  বিশদ

03rd  April, 2020
কানাড়া ব্যাঙ্কের সঙ্গে
জুড়ল সিন্ডিকেট ব্যাঙ্ক 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: পয়লা এপ্রিল থেকে কানাড়া ব্যাঙ্কের সঙ্গে যুক্ত হয়ে গেল সিন্ডিকেট ব্যাঙ্ক। কানাড়া ব্যাঙ্ক সূত্রে জানা গিয়েছে, এই সংযুক্তিকরণের ফলে তাদের মোট শাখার সংখ্যা দাঁড়ালো ১০ হাজার ৩৯১টি।  বিশদ

02nd  April, 2020
উজ্জ্বলা গ্রাহকদের বিনামূল্যে গ্যাস
দেওয়া শুরু করল তেল সংস্থাগুলি 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: কেন্দ্রীয় সরকার আগেই ঘোষণা করেছিল, উজ্জ্বলা যোজনায় থাকা গ্রাহকদের আগামী তিন মাস বিনামূল্যে গ্যাস সরবরাহ করা হবে। সেই প্রক্রিয়া শুরু করল রাষ্ট্রায়ত্ত তেল সংস্থাগুলি।  বিশদ

02nd  April, 2020
উৎপাদন চলছে স্যানিটাইজার ও স্বাস্থ্য পরিষেবার সরঞ্জাম 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াই করতে এগিয়ে এল ওয়েস্ট বেঙ্গল স্মল ইন্ডাস্ট্রিজ ডেভেলপমেন্ট কর্পোরেশন লিমিটেড। এখনও পর্যন্ত তারা সরকারি বিভিন্ন দপ্তরে ৮০ হাজার লিটার স্যানিটাইজার সরবরাহ করেছে।   বিশদ

02nd  April, 2020
স্বল্প সঞ্চয়ে সুদের হার কমাল কেন্দ্র 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: আজ পয়লা এপ্রিল থেকে স্বল্প সঞ্চেয় সুদের হার এক ধাক্কায় অনেকটা কমিয়ে দিল কেন্দ্রীয় সরকার। করোনার আতঙ্কে ভুগছেন সাধারণ মানুষ, জিনিসপত্রের দামও ক্রমশ চড়ছে এই পরিস্থিতিতে কেন্দ্রীয় সরকারের এই পদক্ষেপে রীতিমতো ক্ষুব্ধ আমজনতা।  বিশদ

01st  April, 2020

Pages: 12345

একনজরে
 সৌম্যজিৎ সাহা, কলকাতা: রাজ্যের কয়েকশো সংস্কৃত টোল অধিগ্রহণ প্রক্রিয়ায় অবশেষে জট কাটল। শুধু তাই নয়, ভারতীয় শিক্ষার প্রাচীন ঐতিহ্য বহনকারী এই টোলগুলিতে এক দশকের বেশি ...

  অর্ক দে, কলকাতা: লকডাউনের মধ্যেই কাজ এগল দ্রুত। টালা ব্রিজ ভাঙার কাজ প্রায় শেষের পথে। এই সেতুকে ঘিরে উত্তর কলকাতা বা উত্তর শহরতলির মানুষের ৭৫ বছরের সেই ‘আবেগ’ চলে গেল স্মৃতির অতলে। টালা ব্রিজ বা হেমন্ত সেতু এখন শুধুই ...

সংবাদদাতা, কাটোয়া: লকডাউনে সমস্ত স্কুল বন্ধ থাকায় এবার ইউটিউবের মাধ্যমে ‘ই-ক্লাস’ চালু করল কাটোয়ার সুদপুর উচ্চ বিদ্যালয়। শিক্ষকরা প্রতিটি বিষয় খুঁটিয়ে ইউটিউবের মাধ্যমেই ছাত্র-ছাত্রীদের কাছে তুলে ধরছেন। পড়ানোর শেষে ছাত্র-ছত্রীদের কাছে ফোন করে এবং ফেসবুকের মাধ্যমে তাদের সুবিধা অসুবিধার কথা ...

রাজীব সরকার, শিলিগুড়ি, বিএনএ: করোনার প্রকোপে উত্তরবঙ্গের চা শিল্প। কোভিড-১৯’র কারণে দেশজুড়ে লকডাউন চলছে। পাশাপাশি উৎপাদনও প্রভাব পড়েছে। এই দু’য়ের কারণে বিপুল ক্ষতির মুখে দার্জিলিংয়ের ...




আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

কর্মলাভের যোগ রয়েছে। ব্যবসায়ী যুক্ত হওয়া যেতে পারে। কর্মক্ষেত্রে সাফল্য আসবে। বুদ্ধিমত্তার জন্য প্রশংসা দুযবে। ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৮৯৭: স্বাধীনতা সংগ্রামী ও পশ্চিমবঙ্গের তৃতীয় মুখ্যমন্ত্রী প্রফুল্লচন্দ্র সেনের জন্ম
১৯০১: কবি ও সাহিত্যিক অমিয় চক্রবর্তীর জন্ম
১৯৩১ - বিশিষ্ট লেখক নিমাই ভট্টাচার্যের জন্ম
১৯৬৪: বিশিষ্ট শেফ সঞ্জিব কাপুরের জন্ম
১৯৭৩: ব্রাজিলের ফুটবলার রবার্তো কার্লোসের জন্ম
১৯৮৬: অভিনেত্রী আয়েষা টাকিয়ার জন্ম
১৯৯৫: চতুর্থ প্রধানমন্ত্রী মোরারজি দেশাইয়ের মৃত্যু
২০১৫: অস্ট্রেলীয় ক্রিকেট অধিনায়ক রিচি বেনোর মৃত্যু





ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৭৫.৫৪ টাকা ৭৭.২৬ টাকা
পাউন্ড ৯২.৯৫ টাকা ৯৬.২৭ টাকা
ইউরো ৮১.৪৭ টাকা ৮৪.৫২ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ৪১,৮৮০ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ৩৯,৭৩০ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ৪০,৩৩০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৩৮,৮০০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৩৮,৯০০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]
22nd  March, 2020

দিন পঞ্জিকা

দৃকসিদ্ধ: ২৭ চৈত্র ১৪২৬, ১০ এপ্রিল ২০২০, শুক্রবার, (চৈত্র কৃষ্ণপক্ষ) তৃতীয়া ৪০/১৯ রাত্রি ৯/৩২। বিশাখা ৪১/১৫ রাত্রি ৯/৫৫। সূ উ ৫/২৪/৪০, অ ৫/৫১/২১, অমৃতযোগ দিবা ৭/৫ মধ্যে পুনঃ ৭/৫৫ গতে ১০/২৪ মধ্যে পুনঃ ১২/৫৩ গতে ২/৩২ মধ্যে পুনঃ ৪/১২ গতে অস্তাবধি। রাত্রি ৭/২৩ গতে ৮/৫৬ মধ্যে পুনঃ ৩/৬ গতে ৩/৫২ মধ্যে। বারবেলা ৮/৩১ গতে ১১/৩৮ মধ্যে। কালরাত্রি ৮/৪৪ গতে ১০/১০ মধ্যে।
২৭ চৈত্র ১৪২৬, ১০ এপ্রিল ২০২০, শুক্রবার, তৃতীয়া ৫১/১২/২৪ রাত্রি ১/৫৪/৫৪। বিশাখা ৫১/৫৩/২৭ রাত্রি ২/১১/১৯। সূ উ ৫/২৫/৫৬, অ ৫/৫২/৭। অমৃতযোগ দিবা ৭/৫ মধ্যে ও ৭/৫৫ গতে ১০/২৪ মধ্যে ও ১২/৫৩ গতে২/৩২ মধ্যে ও ৪/১১ গতে ৫/৫২ মধ্যে এবং রাত্রি ৭/২৩ গতে ৮/৫৬ মধ্যে ও ৩/৭ গতে ৩/৫৩ মধ্যে। বারবেলা ৮/৩২/২৯ গতে ১০/৫/৪৫ মধ্যে, কালবেলা ১০/৫/৪৫ গতে ১১/৩৯/১ মধ্যে।
১৬ শাবান

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
করোনা: সুইজারল্যান্ডে নতুন করে আক্রান্ত হলেন ৭৬৬ জন 

09-04-2020 - 10:37:15 PM

করোনা: নেদারল্যান্ডসে নতুন করে আক্রান্ত হলেন ১২১৩ জন 

09-04-2020 - 10:19:06 PM

করোনা: তুরষ্কে নতুন করে আক্রান্ত হলেন ৪০৫৬ জন

09-04-2020 - 10:07:11 PM

করোনা: একদিনে আমেরিকায় আক্রান্ত হলেন ৫ হাজারেরও বেশি
আজ আমেরিকায় একদিনে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৫ হাজারেরও বেশি মানুষ। ...বিশদ

09-04-2020 - 09:12:00 PM

করোনা: জার্মানিতে নতুন করে আক্রান্ত হলেন ৯৬১ জন 

09-04-2020 - 09:10:18 PM

করোনা: তামিলনাড়ুতে আক্রান্ত আরও ৯৬ 
তামিলনাডুতে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন আরও ৯৬ জন। ...বিশদ

09-04-2020 - 09:06:39 PM