Bartaman Patrika
খেলা
 
 

  মঙ্গলবার নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে প্রদীপ জ্বালিয়ে ইস্ট বেঙ্গলের ক্রীড়া দিবসের অনুষ্ঠানের সূচনা করছেন মজিদ বাসকর, সুকুমার সমাজপতিসহ বিশিষ্ট অতিথিরা।

পিকে ব্যানার্জি বড় বেশি কথা বলতেন
সুব্রত ভট্টাচার্যই আমার বিরুদ্ধে খেলা সেরা ডিফেন্ডার: মজিদ বাসকর
জয় চৌধুরি

 এতদিন পর কলকাতায় এলেন। রবিবার গিয়েছিলেন টপ ফর্মে থাকাকালীন আড্ডার জায়গা সিসিএফসি’তে। আপনার অনুভূতি কীরকম?
মজিদ: কলকাতায় ফের আসব তা আমি এক বছর আগে স্বপ্নেও ভাবিনি। এই বছরের গোড়ায় নতুন করে যোগাযোগ হয়। ইস্ট বেঙ্গলের শতবর্ষে আসার ব্যাপারে ক্লাব থেকে আমন্ত্রণ জানানো হয়। আমি প্রথমে খুব একটা সিরিয়াস ছিলাম না। কিছুদিনের মধ্যে কর্তাদের পাশাপাশি বেশ কিছু সমর্থকেরও ফোন পেলাম। মনোরঞ্জন ভট্টাচার্য আর জামশিদও ফোন করেছিল। ভাইপো ফেসবুক দেখে বলল, কলকাতার ফুটবল অনুরাগীরা তোমাকে দেখতে মুখিয়ে আছে। তাই চলে আসার সিদ্ধান্ত নিলাম।
 কলকাতা কতটা বদলেছে?
মজিদ: খুব বেশি ঘুরে দেখার সুযোগ হয়নি। আমাদের টপ ফর্মে কলকাতায় এত গাড়ি ছিল না। আর এত ওভারব্রিজও দেখিনি। ফ্লাইওভার-ওভারব্রিজই আমার চোখ টেনেছে। জামশিদের মুখেই শুনলাম, যমুনা সিনেমা হল বন্ধ হয়ে যাওয়ার কথা। ওই হলে অনেক সিনেমা দেখেছিলাম।
 কলকাতায় ছয়-সাত বছরের ফুটবল জীবনে আপনার প্রতিপক্ষ হিসাবে সেরা ডিফেন্ডার কে?
মজিদ: নিঃসন্দেহে সুব্রত ভট্টাচার্য। তবে মনোরঞ্জন ভট্টাচার্যও বেগ দিয়েছে। মহমেডান স্পোর্টিংয়ে খেলার সময়ে প্রতিপক্ষ হিসাবে ওকে পেয়েছি। এই তালিকায় প্রদীপ চৌধুরিও থাকবে। ও আমার চেয়েও জামশিদের পিছনে বেশি লেগে থাকত। তবে সুব্রত একটু ‘ঝামেলাবাজ ’হলেও প্রচণ্ড বুদ্বিদীপ্ত ছিল (এরপর টেবলে রাখা কফির ফ্লাস্কের ঢাকনা-বোতলের ছিপি দিয়ে বুঝিয়ে দিলেন সুব্রত তাঁকে কীভাবে গার্ড করতেন)। সুব্রত পিছন থেকে সহ খেলোয়াড়দের বলত ‘মজিদ, মজিদ’।
 আপনার সেরা টুর্নামেন্ট কোনটি?
মজিদ: অবশ্যই ১৯৮০ সালের ফেডারেশন কাপ। রাজনীতি আমি পছন্দ করি না। কিন্তু ১৯৭৯ সালে রাজনীতিই হয়েছিল লাল-হলুদ ফুটবল টিমে। ১৯৮০ সালে ইস্ট বেঙ্গলের সাত ফুটবলার চলে গিয়েছিল মহমেডান স্পোর্টিংয়ের। এখনও মনে আছে মনোরঞ্জন ভট্টাচার্য প্রচণ্ড মানসিক যন্ত্রণায় ভুগছিল। আমি, জামশিদ ও খাবাজি তখন ইস্ট বেঙ্গলে নতুন এসেছি। দলটিকে দাঁড় করাতে আমরা তিনজন বড় ভূমিকা দিয়েছিলাম। আমি ও জামশিদ ছোটবেলা থেকে একই ক্লাবে খেলেছি। তেহরানে আমরা খেলতাম ৪-৩-৩ ছকে। কিন্তু কলকাতায় এসে দেখলাম ৪-৪ -২ ছকে খেলা হচ্ছে। প্রথমে ভড়কে গিয়েছিলাম। আমি হাবিবকে নীচে নেমে আসতে বলি। কোচ পি কে ব্যানার্জি ৪-৪-২ ছকে খেলালেও আমরা চলে যেতাম ৪-৩-৩ ছকে। অনেক ম্যাচে সমর ভট্টাচার্য নামার পর সুধীর কর্মকারও ব্লকারের কাজ করেছে। সেই জন্য টিম ভেঙে খানখান হয়ে গেলেও আমরা ১৯৮০ সালে ডিসিএম ফাইনাল ছাড়া আর কোনও টিমের কাছে হারিনি। ফেড কাপে গ্রুপ লিগের সব ম্যাচ জিতে উঠেছিলাম ফাইনালে। শেষ পর্যন্ত মোহন বাগানের সঙ্গে যুগ্মজয়ী হয় ইস্ট বেঙ্গল। ইডেনে ফেড কাপ আমাকে প্রতিষ্ঠা দিয়েছে।’
 সেরা ডার্বি কোনটি?
মজিদ: ভারতে একটা প্রচলিত ধারণা আছে মোহন- ইস্ট ম্যাচে কোনও দল দু’গোলে লিড নিলে সেই দলই জিতবে। ১৯৮০ সালে দার্জিলিং গোল্ড কাপের ফাইনালে মোহন বাগান দু’গোলে এগিয়ে গিয়েছিল। পুজোর মুখে টুর্নামেন্ট। ইস্ট বেঙ্গল ২-০ গোলে পিছিয়ে আছে দেখে দ্বিতীয়ার্ধে কলকাতা থেকে যাওয়া অনেক সমর্থক ঘুরতে চলে যায়। সেই দৃশ্যই তাতিয়ে দিয়েছিল আমাকে। শেষ ২০ মিনিটে তিনটি গোল করেছিলাম আমরা। ওটাই সেরা ডার্বি। জামশিদও দারুণ খেলেছিল ওই ম্যাচে (ওই ঐতিহাসিক ম্যাচে মজিদ গোল না করলেও তাঁর পাস থেকে সিডি ফ্রান্সিস, সোমনাথ ব্যানার্জি, জামশিদকে দিয়ে গোল করেন)। এর পাশাপাশি ১৯৮০ সালের রোভার্স কাপে মোহন বাগানের বিরুদ্ধে ডাবল লেগ সেমি-ফাইনালের কথাও বলতে হবে। প্রথম লেগে মোহন বাগান দু’গোলে লিড নিলেও ম্যাচ শেষ পর্যন্ত ২-২ হয়ে গিয়েছিল। পরদিন পিছিয়ে পড়েও জিতেছিলাম আমরা। ওই প্রতিযোগিতায় নিয়মিত খেলা দেখতে আসতেন বলিউডের নামী অভিনেতা দিলীপকুমার। ওঁর সঙ্গে ওখানেই প্রথম আলাপ। ফাইনালে মহমেডানের মুখোমুখি হই আমরা। সেই ম্যাচেও ছিলেন দিলীপকুমার। প্রচণ্ড প্রশংসা করেছিলেন আমার খেলার। আর ১৯৮৪ সালে মহমেডানকে রোভার্সে চ্যাম্পিয়ন করার পর দিলীপকুমার প্রচণ্ড খুশি হয়েছিলেন। সেই স্মৃতি এখনও আমার মনে আছে। মাঝের ৩০ বছর ভারতীয় ফুটবল সম্বন্ধে যে প্রচুর খোঁজ খবর রেখেছি তা নয়। তবে কলকাতায় আসার পর সবকিছু মনে পড়ে যাচ্ছে। মনে হচ্ছে, এখানেই ফের থেকে যাই। কিন্তু তা আর সম্ভব নয়। তেহরানে বেসরকারী সংস্থায় কাজ করি দায়িত্বপূর্ণ পদে। দিন পাঁচেকের ছুটি নিয়ে এসেছি। ইদ থাকায় আমার কাজের চাপও কম। এই কথোপকথনের মাঝেই পিকে’র সঙ্গে ভিডিও কলে কথা বলেন মজিদ।
 পি কে ব্যানার্জি সম্বন্ধে আপনার ধারণা কী?
মজিদ: দেখুন, ট্রফির সংখ্যা যদি একজন সফল কোচের মাপকাঠি হয়, তবে পিকে ব্যানার্জিই সেরা কোচ। তবে উনি বড় বেশি কথা বলতেন। ওঁর কোচিংয়ে ভোকাল টনিক বেশি, টেকনিক্যাল ব্যাপার কম। ১৯৮০ সালে ৪-২-৪ পদ্ধতিকে ভেঙে ৪-৩-৩ করার প্রস্তাব ছিল আমার। হাবিব ও খাবাজি সেই প্রস্তাবকে সমর্থন করে। পরে উনি এই ফর্মেশন বদলের কৃতিত্ব নেন। একদিন পিকে বলেছিলেন, তোমাদের দেশের রেভেনিউশনারি নেতা আয়াতুল্লা খোমেইনির চেয়েও এই দেশে আমার জনপ্রিয়তা বেশি। আমি হলাম ভারতীয় ফুটবলের সুপার পাওয়ার। আমি যা বলছি শোনো।
 খাবাজি-সানজারি এখন কী করেন?
মজিদ: খাবাজি তেহরানে কোচিং করাচ্ছে। সানজারি আছে দুবাইয়ে। বিগ বিজনেসম্যান।
 ১৯৭৮ সালের বিশ্বকাপ স্কোয়াডে থেকেও খেলতে পারেননি। আর ইরানের ফুটবল এখন কোন পথে?
মজিদ: বিশ্বকাপে এক মিনিট খেলতে না পারার দুঃখ তো আছেই। তবে টিমের সঙ্গে বিশ্বমঞ্চে ছিলাম। সেটাও গর্বের। সেবার আমাকে কেন খেলানো হয়নি জানেন? কারণ, তখন আমার বয়স মাত্র ২০ বছর। তার আগের বছরই আমি ইরানের অনূর্ধ্ব-১৯ দলের হয়ে এশিয়া কাপে খেলেছি। এখন তো আন্তর্জাতিক ফুটবলে ২০ বছরের ছেলেরাই তারকা হয়ে যাচ্ছে। ফিল ফোডেন, জ্যাডন স্যাঞ্চো তার জ্বলন্ত উদাহরণ। তবে সেবার খেলার সুযোগ পেলে আমার হয়তো কলকাতায় আসা হত না। অন্য কোনও দেশে চলে যেতাম! সবই ভবিতব্য। এই যে কলকাতায় আমার কেরিয়ার দীর্ঘায়িত হতে পারত, কিন্তু হল না। সেটা রাজনীতির পাকচক্রে। বিস্তারিতভাবে কিছু বলতে চাই না। আর ইরানের ফুটবল? সাতের দশকে ইরানের যা মান ছিল সেই অনুসারে আমরা এগতে পারিনি। জাপান-কোরিয়া এগিয়ে গিয়েছে। ইরানের ফুটবলের অগ্রগতি অনেকটা ভারতের মতোই। ছয়ের দশকে কত ভালো জায়গায় ছিল ভারতীয় ফুটবল! শুনলাম এখন দুই প্রধানেই স্প্যানিশ কোচ। আমি একটু বিস্মিতই।
 মোহন বাগানে খেলতে না পারার জন্য কোনও আক্ষেপ?
মজিদ: ১৯৮১ সালে মোহন বাগান কর্তারা আমার কাছে এসে বলেছিলেন, তোমার জন্য আমরা ক্লাবের সংবিধান পরিবর্তন করতে রাজি। আমাকেও টলিয়ে দিয়েছিল সেই কথা। তবে ইস্ট বেঙ্গলের রিক্রুটাররা অনেক বেশি চালাক। অরুণ ভট্টাচার্য আমাকে সরিয়ে দেন গোপন স্থানে। তাছাড়া সেই বছর মোহন বাগানে অন্তর্দলীয় কোন্দলও ছিল। মোহন বাগানে না খেলা নিয়ে তেমন কোনও আক্ষেপ নেই।
 পেলে ও মারাদোনার মধ্যে কীভাবে তুলনা করবেন আপনি? লায়োনেল মেসি ও ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর মধ্যে সেরা কে?
মজিদ: পেলেই সেরা। কারণ ওঁর ধারাবাহিকতা সবথেকে বেশি। তিনবার বিশ্বকাপ জেতা মুখের কথা নয়। তবে মারাদোনা ওই রকম ছোট চেহারা নিয়ে বিশ্ব ফুটবলকে মাত করে দিয়েছিলেন। আমি মারাদোনারও গুণমুগ্ধ। আর ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর থেকে লিও মেসিকেই আমার বেশি ভালো লাগে। ব্যাক্তিগত স্কিলের বিচ্ছুরণ ওর মধ্যেই বেশি।
 গ্রিজম্যান, মহম্মদ সালাহ এবং নেইমারের মধ্যে ভবিয্যতের সুপারস্টার কে?
মজিদ: আমার মনে হচ্ছে গ্রিজম্যান সকলকে টপকে যাবে। নেইমারের প্যারিসে খেলতে যাওয়াটা ভুল। মো সালাহর চেয়ে গ্রিজম্যান সব ব্যাপারেই এগিয়ে।
13th  August, 2019
 ইরানি পাস ক্লাব ম্যাচের নায়ক পরিমল দে’কে কুর্নিশ মজিদের

 অভিজিৎ সরকার: ১৯৭০ সালে ইডেনে আইএফএ শিল্ড ফাইনালে ইরানের পাস ক্লাবের বিরুদ্ধে সেই ঐতিহাসিক গোল। ইস্ট বেঙ্গল জনতার একদা ‘হার্টথ্রব’ পরিমল দে শারীরিক অসুস্থতায় অনেকটাই ন্যুব্জ।
বিশদ

সুব্রতর প্ররোচনায়
কখনও পা দিইনি: মজিদ

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: বিস্তর কথা চালাচালির পর সোমবার রাত বারোটায় মজিদ বাসকর মহমেডান স্পোর্টিং কর্তাদের জানিয়ে দেন মঙ্গলবার সকাল সাড়ে নয়টা নাগাদ তিনি তাঁদের তাঁবুতে যাবেন।
বিশদ

 আজ ওয়ান ডে সিরিজ জেতার হাতছানি কোহলিদের সামনে

পোর্ট অব স্পেন, ১৩ আগস্ট: সিরিজ জেতার লক্ষ্যে আজ ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে তৃতীয় তথা শেষ ওয়ান ডে খেলতে নামছে ‘টিম ইন্ডিয়া’। প্রথম ম্যাচটি বৃষ্টিতে ভেস্তে যাওয়ায় বিরক্তি প্রকাশ করেছিলেন ভারত অধিনায়ক। তবে বৃষ্টি বিঘ্নিত দ্বিতীয় ম্যাচে বিরাট কোহলির অনবদ্য শতরানের উপর ভর করে ভারত বড় ব্যবধানে জিতেছিল।
বিশদ

কোহলিদের কোচ হওয়ার দৌড়ে ছ’জন

 নিজস্ব প্রতিবেদন: ভারতীয় ক্রিকেট দলের পরবর্তী কোচ কে হবেন? আপাতত ক্রিকেট দুনিয়ায় এটাই আলোচ্য বিষয়। বর্তমান কোচ রবি শাস্ত্রী দৌড়ে এগিয়ে ঠিকই। তবে তাঁকে চ্যালেঞ্জ জানাতে তৈরি আরও পাঁচ জন।
বিশদ

 আজ ড্র করলেই ডুরান্ড কাপের শেষ চারে নিশ্চিত ইস্ট বেঙ্গল

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: শতবর্ষের উৎসবে মেতেছে ইস্ট বেঙ্গল। বিনিয়োগকারী সংস্থা কোয়েসের সঙ্গে লাল-হলুদ কর্তাদের বিভাজন স্পষ্ট। চলছে ইগোর লড়াই। পুরো লাল-হলুদ শিবির আড়াআড়ি বিভক্ত। এরই মাঝে বুধবার সল্টলেক স্টেডিয়ামে সন্ধ্যা ছ’টায় ডুরান্ড কাপের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে বেঙ্গালুরু এফসি’র বিরুদ্ধে খেলতে নামছে ১৬ বারের চ্যাম্পিয়নরা।
বিশদ

 মাঠ নিয়ে চিন্তায় মোহন কোচ কিবু ভিকুনা

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: কলকাতা লিগের প্রথম ম্যাচে কিছুটা অপ্রত্যাশিতভাবে মোহন বাগান তিন গোলে হেরে গিয়েছিল পিয়ারলেসের কাছে। মাঝে ডুরান্ডের ম্যাচে জয় পেয়েছে। ফিরে পেয়েছে আত্মবিশ্বাস। এই প্রেক্ষাপটে আজ কাস্টমসের বিরুদ্ধে লিগ ম্যাচে জয়ে ফিরতে মরিয়া মোহন বাগান।
বিশদ

 ইউরোপ সেরা হওয়াই এবার লক্ষ্য মেসিদের

মাদ্রিদ, ১৩ আগস্ট: শুক্রবার লা লিগা অভিযান শুরু করছে বার্সেলোনা। পরের দিনই মাঠে নামছে রিয়াল মাদ্রিদ। স্পেনের এই দু’টি বড় ক্লাবই এবার প্রথম ম্যাচ ঘরের মাঠে খেলার সুযোগ পাচ্ছে না। সান মেমস স্টেডিয়ামে বার্সেলোনা চ্যালেঞ্জ সামলাবে অ্যাথলেতিক বিলবাওয়ের। রিয়াল মাদ্রিদের প্রথম প্রতিপক্ষ সেলতা ভিগো।
বিশদ

 স্মিথকে থামাতে ইংল্যান্ডের তাস জোফ্রা আর্চার

লন্ডন, ১৩ আগস্ট: আজ শুরু দ্বিতীয় অ্যাসেজ টেস্ট। স্টিভ স্মিথের কাঁধে ভর করে প্রথম টেস্টে দুরন্ত জয় ছিনিয়ে নিয়েছিল অস্ট্রেলিয়া। ফলে কিছুটা হলেও চাপে পড়ে গিয়েছে ইংল্যান্ড। সিরিজে সমতা ফেরাতে মরিয়া জো রুট, বেন স্টোকসরা। দলের তারকা পেসার জেমস অ্যান্ডারসন চোটের কারণে দ্বিতীয় টেস্টে নেই।
বিশদ

 চেলসির বিরুদ্ধে আজ ফেবারিট লিভারপুল

  ইস্তানবুল, ১৩ আগস্ট: বুধবার ভারতীয় সময় রাত সাড়ে বারোটায় উয়েফা সুপার কাপে মুখোমুখি হচ্ছে লিভারপুল ও চেলসি। গত মরশুমে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জিতেছিল জুরগেন ক্লপের প্রশিক্ষণাধীন লিভারপুল। পক্ষান্তরে, মরিসিও সারি চেলসিকে জিতিয়েছিলেন উয়েফা ইউরোপা লিগ। এবার উয়েফা সুপার কাপে নিঃসন্দেহে ফেবারিট লিভারপুল।
বিশদ

লিগের ডার্বির টিকিটের ন্যূনতম দাম ১০০ টাকা

 নিজস্ব প্রতিনিধি,কলকাতা: কলকাতা লিগে মোহন বাগান- ইস্ট বেঙ্গল ম্যাচে টিকিটের ন্যূনতম দাম হতে চলেছে ১০০ টাকা। বিক্রয়যোগ্য অর্ধেক টিকিট পাওয়া যাবে অন লাইনে। বাকি অর্ধেক পাওয়া যাবে কাউন্টার থেকে। মোহন- ইস্টের অনেক সমর্থকই কাউন্টার থেকে টিকিট কিনতে অভ্যস্ত। তাই অনলাইনের পাশাপাশি কাউন্টার সেলও রাখা হচ্ছে।
বিশদ

 দ্রাবিড়ের বিরুদ্ধে অভিযোগ খারিজ

 মুম্বই, ১৩ আগস্ট: স্বার্থের সংঘাতের অভিযোগ থেকে রেহাই পেলেন প্রাক্তন অধিনায়ক রাহুল দ্রাবিড়। তার ফলে জাতীয় ক্রিকেট অ্যাকাডেমির কোচ হতে তাঁর সামনে আর কোনও বাধা রইল না। প্রশাসক কমিটির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, রাহুল দ্রাবিড়ের বিরুদ্ধে স্বার্থের সংঘাতের যে অভিযোগ উঠেছিল, তা খতিয়ে দেখা হয়। অভিযোগ প্রমাণিত হয়নি।
বিশদ

 ফ্ল্যাটে ফিরে অভিশপ্ত বড় ম্যাচে মৃত্যু মিছিলের কথা শুনেছিলেন মজিদ

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা:১৯৮০ সালে ১৬ আগস্ট অভিশপ্ত বড় ম্যাচে যে ১৬ জন ফুটবলপ্রেমী মারা গিয়েছিলেন সেটা মজিদ জানতে পারেন ইডেন থেকে লাল-হলুদ তাঁবু ঘুরে লর্ড সিনহা রোডের ফ্ল্যাটে ফিরে। ইস্ট বেঙ্গল তাঁবুতে সরকারি প্রেস কনফারেন্সে মজিদ বললেন,‘মাঠে খেলায় একাত্ম হয়ে গিয়েছিলাম। গ্যালারির একটি অংশে গণ্ডগোল হয়েছিল।
বিশদ

13th  August, 2019
 সিনিয়রের দায়িত্ব পালন করতে পেরে তৃপ্ত কোহলি

পোর্ট অব স্পেন, ১২ আগস্ট: দীর্ঘদিন পর সেঞ্চুরির দেখা পেয়েছেন বিরাট কোহলি। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে দ্বিতীয় একদিনের ম্যাচে গড়েছেন একাধিক ব্যক্তিগত রেকর্ডও। তাঁর দুরন্ত ১২০ রানের ইনিংসে ভর করে ৫৯ রানে জিতে সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে গিয়েছে দল। স্বভাবতই দারুণ খুশি ভারত অধিনায়ক।
বিশদ

13th  August, 2019
নেইমারের ভবিষ্যৎ নিয়ে ধোঁয়াশা অব্যাহত

প্যারিস, ১২ আগস্ট: নেইমারের ভবিষ্যৎ কী? এই মুহূর্তে ইউরোপিয়ান ক্লাব ফুটবলে এই প্রশ্নের উত্তর নেই। ধোঁয়াশা এখনও অব্যাহত। সবই নির্ভর করছে ‘যদি’ এবং ‘কিন্তু’র উপর। জানা গিয়েছে, ব্রাজিলিয়ান তারকাটিকে পাওয়ার জন্য বার্সেলোনার সঙ্গে ঝাঁপিয়েছে রিয়াল মাদ্রিদও।
বিশদ

13th  August, 2019

Pages: 12345

একনজরে
প্রসেনজিৎ কোলে, কলকাতা: জোর করে দরজা আটকে পাতাল পথের ট্রেনে ওঠার অভিযোগে এক মাসেই জরিমানা বাবদ আদায় হয়েছে ১০ হাজার টাকা। স্টেশনে চলছে প্রচারও। তবুও ...

বিএনএ, কৃষ্ণনগর: ঘূর্ণির শিল্পী সুবীর পাল ‘লিমকা বুক অব রেকডর্সে’ নাম তুলে ফেললেন। সুবীরবাবুর ঝুলিতে অনেক আগেই এসেছে রাষ্ট্রপতি পুরস্কার। একইসঙ্গে বৃহৎ মূর্তি(লার্জার দ্যান লাইফ) এবং ক্ষুদ্র ভাস্কর্য তৈরি করে তিনি ঠাঁই পেয়েছেন লিমকা বুকে। ভেঙে ফেলেছেন আগের রেকর্ডও। সম্প্রতি ...

সংবাদদাতা রায়গঞ্জ: নানা অনিয়মের অভিযোগ তুলে উত্তর দিনাজপুর জেলাজুড়ে সমস্ত ভূমি ও ভূমি সংস্কার দপ্তরের বিরুদ্ধে আন্দোলনে নামছে কংগ্রেস। অভিযোগ, জেলা ও ব্লক স্তরের ভূমি সংস্কার দপ্তরগুলিতে নানা বেআইনি কাজ হচ্ছে। অনৈতিক ভাবে টাকা নিয়ে গরিব মানুষদের নামে থাকা জমি ...

নয়াদিল্লি, ১৩ আগস্ট (পিটিআই): উন্নাওয়ের নির্যাতিতা এবং তাঁর পরিবারের বিরুদ্ধে ২০টি মামলা দায়ের হয়েছে উত্তরপ্রদেশে। মঙ্গলবার উত্তরপ্রদেশ সরকারের কাছ থেকে সেই মামলাগুলির স্ট্যাটাস রিপোর্ট তলব করার ব্যাপারে অসম্মতি জানাল সুপ্রিম কোর্ট।  ...




আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

কোনও কিছুতে বিনিয়োগের ক্ষেত্রে ভাববেন। শত্রুতার অবসান হবে। গুরুজনদের কথা মানা দরকার। প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষায় সুফল ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৯৪৭- পাকিস্তানের স্বাধীনতা দিবস
১৯৪৮- শেষ ইনিংসে শূন্য রানে আউট হলনে ডন ব্র্যাডম্যান
১৯৫৬- জার্মা নাট্যকার বের্টোল্ট ব্রেখটের মৃত্যু
২০১১- অভিনেতা শাম্মি কাপুরের মৃত্যু 





ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৭০.২৭ টাকা ৭১.৯৭ টাকা
পাউন্ড ৮৪.২৫ টাকা ৮৭.৩৭ টাকা
ইউরো ৭৮.০৭ টাকা ৮১.০৭ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ৩৮,৪৩০ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ৩৬,৪৬০ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ৩৭,০০৫ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৪৪,৬০০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৪৪,৭০০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]

দিন পঞ্জিকা

২৮ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৪ আগস্ট ২০১৯, বুধবার, চতুর্দশী ২৬/১৩ দিবা ৩/৪৬। উত্তরাষাঢ়া ০/৫ প্রাতঃ ৫/১৯। সূ উ ৫/১৬/৩৫, অ ৬/৬/১৬, অমৃতযোগ দিবা ৬/৫৮ মধ্যে পুনঃ ৯/৩৩ গতে ১১/১৫ মধ্যে পুনঃ ৩/৩২ গতে ৫/১৫ মধ্যে। রাত্রি ৬/৫২ গতে ৯/৬ মধ্যে পুনঃ ১/৩৩ গতে উদয়াবধি, বারবেলা ৮/২৯ গতে ১০/৫ মধ্যে পুনঃ ১১/৪২ গতে ১/১৮ মধ্যে, কালরাত্রি ২/২৯ গতে ৩/৫২ মধ্যে। 
২৮ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৪ আগস্ট ২০১৯, বুধবার, চতুর্দশী ২৪/৩১/৩ দিবা ৩/৪/৩। উত্তরাষাঢ়ানক্ষত্র ২/১০/১৭ দিবা ৬/৭/৪৫, সূ উ ৫/১৫/৩৮, অ ৬/৮/৪২, অমৃতযোগ দিবা ৭/০ মধ্যে ও ৯/৩২ গতে ১১/১৪ মধ্যে ও ৩/২৮ গতে ৫/১০ মধ্যে এবং রাত্রি ৬/৪৬ গতে ৯/১ মধ্যে ও ১/৩২ গতে ৫/১৬ মধ্যে, বারবেলা ১১/৪২/১০ গতে ১/১৮/৪৮ মধ্যে, কালবেলা ৮/২৮/৫৪ গতে ১০/৫/৩২ মধ্যে, কালরাত্রি ২/২৮/৫৪ গতে ৩/৫২/১৬ মধ্যে। 
১২ জেলহজ্জ 

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
তৃতীয় একদিনের ম্যাচ: বৃষ্টিতে ফের বন্ধ খেলা, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১৫৮/২(২২ওভার)  

09:25:56 PM

তৃতীয় একদিনের ম্যাচ: ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১৩১/২(১৫ওভার)  

08:44:01 PM

তৃতীয় একদিনের ম্যাচ: ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১১৪/০(১০ ওভার)  

08:19:26 PM

 আগামীকাল কম ট্রেন মেট্রোয়
আগামীকাল ১৫ আগস্ট স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে ছুটি থাকায় ...বিশদ

08:12:59 PM

তৃতীয় একদিনের ম্যাচ: ওয়েস্ট ইন্ডিজ ২৯/০(৫ ওভার)  

07:49:21 PM

তৃতীয় একদিনের ম্যাচ: বৃষ্টিতে বন্ধ খেলা, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৮/০(১.৩ ওভার) 

07:24:54 PM