Bartaman Patrika
রাজ্য
 
 

 কলকাতায় বিকোচ্ছে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের ছবি আঁকা মাস্ক। -নিজস্ব চিত্র

 বাংলার বানভাসি ৫ জেলার বন্যা নিয়ন্ত্রণে মেগা সেচ প্রকল্প অনুমোদন মমতার

রাজু চক্রবর্তী, কলকাতা: মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে দ্বিতীয়বার শপথ নেওয়ার পর থেকেই রাজ্যের পাঁচটি বানভাসি জেলার ফি-বছর জলমগ্ন হওয়ার ছবি বদলে দেওয়ার পরিকল্পনা শুরু করেছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। অবশেষে চার বছরের নিরলস প্রচেষ্টার পর বিশ্বব্যাঙ্কের আর্থিক সহায়তায় জানুয়ারি মাস থেকে শুরু হচ্ছে পশ্চিমবঙ্গ বৃহৎ সেচ এবং বন্যা ব্যবস্থাপনার মেগা প্রকল্প। নবান্ন সূত্রের দাবি, এর ফলে পূর্ব বর্ধমান, পশ্চিম বর্ধমান, বাঁকুড়া, হাওড়া, হুগলি— এই পাঁচ জেলায় বর্ষার মরশুমে পরিচিত জলছবি আমূল বদলে যাবে। যার জেরে সংশ্লিষ্ট এলাকার ২৭ লক্ষের বেশি মানুষ প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে উপকৃত হবেন। যার প্রকল্প ব্যয় প্রায় তিন হাজার কোটি টাকা। একই সঙ্গে দীর্ঘ সাত দশক ধরে দামোদর ভ্যালি কর্পোরেশনের (ডিভিসি) ব্যবস্থাপনায় দুই বর্ধমান, হুগলি, হাওড়ার বিস্তীর্ণ এলাকার চাষের জমিতে জল পৌঁছে দেওয়ার কাজ হচ্ছে। কিন্তু পর্যাপ্ত আধুনিকীকরণ, সংস্কারের অভাবে বর্তমানে ওই এলাকায় সেচের জল প্রায় পৌঁছয় না বললেই চলে। যার জেরে অবাধে ভূ-গর্ভস্থ জল তোলা হচ্ছে। যার ফলে আগামীদিনে ওই অংশে মাটির জলস্তর একেবারে নেমে যেতে পারে বলে আশঙ্কা করছেন পরিবেশবিদরা। এর ফলে সংশ্লিষ্ট এলাকার পানীয় জলে আর্সেনিক প্রবণতা ধরা পড়ার আশঙ্কা প্রবল হচ্ছে।
নবান্নের এক কর্তার কথায়, মুখ্যমন্ত্রীর এই উদ্যোগের ফলে নিম্ন দামোদর অববাহিকার উপর অবস্থিত বিরাট অংশকে সেচ-সেবিত করা সম্ভব হবে। সমস্ত জমিতে সেচের জল পৌঁছনোর বিষয়টি সুনিশ্চিত করা যাবে। বন্যার চিত্র বদলের জন্য চলতি মাস থেকেই ওই পাঁচটি জেলার বানভাসি হওয়ার মূল কারণ – মুণ্ডেশ্বরী ও আমতা চ্যানেলের আমূল সংস্কারের কাজ শুরু হবে। ওই কর্তার কথায়, বর্তমানে মুণ্ডেশ্বরীর নাব্যতা একেবারে কমে গিয়েছে। যার জেরে মাইথন-পাঞ্চেত থেকে সামান্য জল ছাড়লেই তা উপচে পড়ে গোটা এলাকা ভাসিয়ে দেয়। একই সঙ্গে আমতা চ্যানেলের ডানদিকের পাড় দিয়েই প্রথম বর্ষার জল ঢোকে বলে দাবি ওই কর্তার। কিন্তু ওই অংশে উঁচু বাঁধ না থাকাই মূল সমস্যা। এই প্রকল্পে বিপজ্জনক ওই অংশে নতুন বাঁধ তৈরি করা হবে। একই সঙ্গে এলাকায় সেচের জল পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্যে প্রকল্পের অন্তর্গত এলাকার প্রতিটি ছোট-বড় খালের পূর্ণ সংস্কার করা হবে। নবান্ন সূত্রের দাবি, সম্প্রতি রাজ্যের প্রধান সচিবালয়ে মুখ্যসচিবের নেতৃত্বে একটি উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক হয়। সেখানেই এই মেগা প্রকল্পের অনুষ্ঠানিক অনুমোদন দেওয়া হয়।
অর্থ দপ্তরের এক কর্তা এ প্রসঙ্গে বলেন, সাম্প্রতিক অতীতে রাজ্যে এত বড় সেচ প্রকল্প হয়নি। জানা গিয়েছে, ২ হাজার ৯৩২ কোটি টাকায় পাঁচ জেলার বানভাসি চিত্র এবং ওই অংশকে সেচ-সেবিত করার কাজ শুরু হচ্ছে। যার মধ্যে ৩৫ শতাংশ দিচ্ছে বিশ্বব্যাঙ্ক, ৩৫ শতাংশ আর্থিক সহায়তা দিচ্ছে এশিয়ান ইনফ্রাস্ট্রাকচার ইনভেস্টমেন্ট ব্যাঙ্ক এবং বাকি ৩০ শতাংশ আর্থিক দায় নিচ্ছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার। ২০২০ সালের জানুয়ারি থেকে শুরু হতে চলা এই মেগা সেচ প্রকল্প চলবে পাঁচ বছর। তবে সামনের বর্ষার মরশুমে এই প্রকল্পে থেকে লাভবান হবেন ফি-বছর বানভাসি হওয়া কয়েক লক্ষ মানুষ। অর্থদপ্তরের ওই কর্তার দাবি, চুক্তি অনুসারে প্রকল্পের কাজ শেষ না হওয়া পর্যন্ত এই খাতে নেওয়া ঋণের টাকা রাজ্যকে শোধ করতে হবে না। ২০২৬ সাল থেকে এই খাতে টাকা শোধ করতে হবে পশ্চিমবঙ্গ সরকারকে।

14th  January, 2020
বর্ধিত কন্টেইনমেন্ট জোনে
কঠোর লকডাউন

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: করোনার ক্রমবর্ধমান সংক্রমণ প্রতিরোধে ফের কঠোর লকডাউনের সিদ্ধান্ত নিল রাজ্য সরকার। তবে গোটা রাজ্যে নয়, কন্টেইনমেন্ট জোনের পরিধি বাড়িয়ে। নতুন নির্দেশিকা অনুযায়ী, এবার কন্টেইনমেন্ট জোনের সঙ্গে বাফার জোনকে জুড়ে দিয়ে নির্দিষ্ট সেই এলাকায় পূর্ণাঙ্গ লকডাউন হবে। এই মর্মে সব জেলা এবং কলকাতা পুরসভাকে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নির্দেশ পাঠিয়েছেন স্বরাষ্ট্র দপ্তরের অতিরিক্ত মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। কাল, বৃহস্পতিবার বিকেল পাঁচটা থেকে নতুন এই লকডাউন বিধি কার্যকর করার নির্দেশ দিয়েছে নবান্ন। বর্ধিত পরিধির এলাকাকে ‘ব্রড কনটেইনমেন্ট জোন’ (বিসিজেড) বলে নির্দিষ্ট করা হচ্ছে। কলকাতা সহ জেলাগুলির কোথায় কোথায় বিসিজেড হবে, তার তালিকা সরকারি ওয়েবসাইট ‘এগিয়ে বাংলা’য় জানিয়ে দিতে বলা হয়েছে। তবে নতুন এই বিধি ঠিক কতদিনের জন্য কার্যকর হচ্ছে, তা স্পষ্ট করা হয়নি নির্দেশিকায়। সূত্রের খবর, কমপক্ষে ১৪ দিনের জন্য বলবৎ হচ্ছে লকডাউন। পরিস্থিতি খতিয়ে দেখে পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে।
বিশদ

মানবদেহে কোভ্যাকসিন
ট্রায়ালে বাংলার চিরঞ্জিত

সন্দীপ স্বর্ণকার, নয়াদিল্লি ও সুমন তিওয়ারি, দুর্গাপুর: সমালোচনার ধাক্কা সামলেই মানবদেহে ‘কোভ্যাকসিন’-এর পরীক্ষা চালু করতে চলেছে আইসিএমআর। আগামী ১৩ জুলাই। সব কিছু ঠিক থাকলে মানবদেহে প্রয়োগ করা হবে করোনা-জব্দে ভারতের প্রথম টিকা। গোটা দেশে তৈরি ১ হাজার ১২৫ জন স্বেচ্ছাসেবক।
বিশদ

রেশনে কেরোসিনের দু’রকম দাম,
বিভ্রান্তি ও ক্ষোভের আশঙ্কা

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: রেশনে বিক্রি হওয়া কেরোসিনের দাম কেন্দ্র চড়া হারে বাড়িয়ে দেওয়ায় জটিলতার আশঙ্কা করছেন ডিলাররা। জুন মাসে কলকাতায় বিক্রি হওয়া কেরোসিনের লিটার পিছু দাম ছিল ১৭ টাকা ২৯ পয়সা। কেন্দ্রীয় সরকার কেরোসিনের বেসিক মূল্য বৃদ্ধি করায় রাজ্য খাদ্যদপ্তর বিজ্ঞপ্তি জারি করে জুলাই মাসে কলকাতায় বিক্রয় মূল্য ২৬ টাকা ৭৯ পয়সা ধার্য করেছে।
বিশদ

ডাক্তারি পড়তে গিয়ে সাত মাস
চীনবন্দি তমলুকের দুই পড়ুয়া

অর্পণ সেনগুপ্ত, কলকাতা: গলওয়ান নিয়ে চীন আর ভারতের মধ্যে উত্তেজনার পারদ চড়ছিল। আর ভয়ে অবশ হয়ে পড়ছিলেন ওঁরা দু’জন। দেশে ফেরার স্বপ্ন ওদের কাছে সুদূরপরাহত মনে হতে শুরু করেছে। এজেন্টের মাধ্যমে চীনে ডাক্তারি পড়তে গিয়ে জানুয়ারি থেকে সেদেশেই আটকে রয়েছেন তমলুকের দুই ছাত্র।
বিশদ

অভ্যন্তরীণ মূল্যায়নের নম্বরও আগের
পরীক্ষা থেকে নেওয়ার পরিকল্পনা
রবীন্দ্রভারতী

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: বিপুল সংখ্যক ছাত্রছাত্রী থাকায় আর্টস এবং ফাইন আর্টস বিভাগে অ্যাসাইনমেন্ট ভিত্তিক মূল্যায়ন করতে পারছে না রবীন্দ্রভারতী বিশ্ববিদ্যালয়। সোমবার মূল্যায়ন বিষয়ক কমিটির বৈঠকে ঠিক হয়েছে, অভ্যন্তরীণ মূল্যায়নের ২০ শতাংশ নম্বর আগের থেকেই নেওয়া হবে।
বিশদ

মাথাপিছু ক্ষুদ্রঋণ নেওয়ার ক্ষেত্রে
দেশের সেরা রাজ্য হল পশ্চিমবঙ্গ

 বাপ্পাদিত্য রায়চৌধুরী, কলকাতা: ব্যাঙ্কের উপর ভরসা নেই বহু মানুষের। তাই ব্যাঙ্ক নয়, এমন আর্থিক প্রতিষ্ঠান থেকে ঋণ নিতে পছন্দ করছেন অনেকেই। এর ফলে ক্ষুদ্রঋণের চাহিদা গোটা দেশেই লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। ২০১৮-’১৯ অর্থবর্ষে, অর্থাৎ ২০১৯ সালের মার্চ পর্যন্ত যেখানে ক্ষুদ্রঋণ নেওয়ার অঙ্ক ছিল ১ লক্ষ ৭৯ হাজার কোটি টাকা, সেখানে এক বছরের মাথায় অর্থাৎ গত মার্চ পর্যন্ত ঋণের অঙ্ক বেড়ে হয়েছে প্রায় ২ লক্ষ ৩২ হাজার কোটি টাকা।
বিশদ

রাজ্য সরকারের সব দপ্তরের সঙ্গে
অনলাইনে যোগাযোগ রাখবে পিএজি

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: রাজ্য সরকারের সব দপ্তরের সঙ্গে অনলাইনে যোগাযোগ রাখবে প্রিন্সিপ্যাল অ্যাকাউন্ট্যান্ট জেনারেলের (পিএজি) অফিস। পিএজি-র ওয়েবসাইটে এর জন্য বিশেষ ব্যবস্থা করা হয়েছে। প্রতি দপ্তরের জন্য বিশেষ ইউজার আইডি তৈরি করা হয়েছে।
বিশদ

শুনানির পর এবার অনলাইনে
নেওয়া হবে চাকরির ইন্টারভিউ

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: চিকিৎসার গাফিলতির অভিযোগে অনলাইন শুনানির পর এবার অনলাইনে হতে চলেছে সরকারি চাকরির ইন্টারভিউও! এভাবে করোনা জুজুতে বহু বিষয়ই চলে আসছে অনলাইন পদ্ধতিতে।
বিশদ

 টিআই প্যারেডের আর্জি মঞ্জুর

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: জোড়াবাগানে পুলিস সেজে এক ব্যক্তির কাছ থেকে বহু টাকার মূল্যের রুপো হাতিয়ে নেওয়ার মামলায় টিআই প্যারেডের আর্জি মঞ্জুর করল আদালত। মঙ্গলবার ব্যাঙ্কশাল কোর্টের অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট (এসিএমএম/১) ওই আদেশ দিয়েছেন। বিশদ

 পঞ্চায়েতের প্রধানও পেয়েছেন
প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনার ঘর
অভিযোগ মালবাজারে

  সংবাদদাতা, মালবাজার: মালবাজার মহকুমার নাগরাকাটা ব্লকের সুলকাপাড়া গ্রাম পঞ্চায়েতের তৃণমূলী প্রধানের নাম প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনার ঘর পাওয়ার তালিকা উঠেছে। শুধু তিনিই নন, ওই তালিকায় আছে গ্রামের বহু ধনী ব্যক্তির নামও। আর তা প্রকাশ্যে আসতেই বিতর্ক দানা বেঁধেছে।
বিশদ

প্যারামেডিক্যাল পড়ুয়াদের করোনা
ডিউটি নয়, ৭০টি প্রতিষ্ঠানকে মেল

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: প্যারামেডিক্যাল ছাত্রছাত্রীদের করোনা ডিউটি দেওয়া যাবে না। পাঠ্যক্রমের ইন্টার্নদের এই কাজে লাগানো যেতে পারে। এই মর্মে রাজ্যের বিভিন্ন স্বাস্থ্য প্রতিষ্ঠানে ই-মেল পাঠাল স্টেট মেডিক্যাল ফ্যাকাল্টি।
বিশদ

ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পের জন্য ব্যাঙ্কঋণপ্রাপ্তির
তালিকায় পশ্চিমবঙ্গ অনেক পিছিয়ে

 সমৃদ্ধ দত্ত, নয়াদিল্লি: ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পসংস্থাগুলিকে এখনও পর্যন্ত যে ব্যাঙ্কঋণ দেওয়া হয়েছে, সেই তালিকায় পশ্চিমবঙ্গ এই মুহূর্তে অনেকটাই পিছিয়ে। অর্থমন্ত্রক জানিয়েছে, জুলাই মাস পর্যন্ত দেশজুড়ে ১ লক্ষ ১৪ হাজার কোটি টাকার ঋণ মঞ্জুর করা হয়েছে।
বিশদ

সোশ্যাল মিডিয়ায় এমপিদের জনপ্রিয়তায়
তৃণমূলের কাছে পরাজয় গেরুয়া শিবিরের

রাজু চক্রবর্তী, কলকাতা: একুশের যুদ্ধে পুরোদস্তুর নেমেই পড়েছে বিজেপি। নরেন্দ্র মোদি, অমিত শাহ থেকে জে পি নাড্ডা—সবারই নিশানা এখন বাংলা। একের পর এক ভার্চুয়াল বৈঠক। সোশ্যাল মিডিয়ায় অতি সক্রিয় ‘আইটি সেল।’
বিশদ

ইউজিসির হঠাৎ নির্দেশে অনিশ্চয়তায়
পড়ুয়ারা, এখনই গুরুত্ব দিতে নারাজ রাজ্য 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: ইউজিসির পরীক্ষা নেওয়ার নির্দেশিকায় ফের চরম উৎকণ্ঠার মধ্যে পড়লেন রাজ্যের স্নাতক এবং স্নাতকোত্তর স্তরের পরীক্ষার্থীরা। বিশ্ববিদ্যালয়গুলি পুরনো পরীক্ষা এবং অভ্যন্তরীণ মূল্যায়নের ভিত্তিতে নম্বর দেওয়ার কথা ঘোষণা করে দিয়েছিল।  বিশদ

Pages: 12345

একনজরে
সংবাদদাতা, আলিপুরদুয়ার ও মালবাজার: হাতির হামলায় জখম হওয়ার ১৩ দিন পর মারা গেলেন কালচিনির দক্ষিণ লতাবাড়ি গ্রামের এক বৃদ্ধ। বনদপ্তর জানিয়েছে, মৃত বৃদ্ধের নাম ঘুরণ ওঁরাও(৬৩)। বনদপ্তর ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, গত ২৩ জুন দুপুরে জমিতে কাজ করার সময় ...

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: কোম্পানির ডিবেঞ্চার কিনলে মোটা অর্থ ফেরতের প্রতিশ্রুতি দিয়ে বাজার থেকে টাকা তোলার অভিযোগ উঠল একটি চিটফান্ড সংস্থার বিরুদ্ধে। বেনিয়াপুকুর থানাতে এই নিয়ে লিখিত অভিযোগ হয়েছে। ...

শ্রীনগর (পিটিআই): পুলওয়ামায় ফের সেনা-জঙ্গি গুলির লড়াই। জখম নিরাপত্তা বাহিনীর তিন সদস্য। মঙ্গলবার সকাল থেকে শুরু হওয়া ওই সংঘর্ষে এক জঙ্গি খতম হয়েছে বলে পুলিস ...

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: ‘দিন সাতেক হল বাড়িতে আবর্জনা নিতে আসছে না পুরসভার সাফাই কর্মীরা। দুর্গন্ধে ভরে গিয়েছে গোটা বাড়ি। রুম ফ্রেশনার ছড়িয়েও কাজ হচ্ছে না।’ ...




আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম ( মিত্র )
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

কর্মক্ষেত্রে অতিরিক্ত পরিশ্রমে শারীরিক ও মানসিক কষ্ট। দূর ভ্রমণের সুযোগ। অর্থপ্রাপ্তির যোগ। যেকোনও শুভকর্মের বাধাবিঘ্ন ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৯১৪: পশ্চিমবঙ্গের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী জ্যোতি বসুর জন্ম
১৯৫৮: অভিনেত্রী নীতু সিংয়ের জন্ম
১৯৭২: ক্রিকেটার সৌরভ গাঙ্গুলির জন্ম
২০০১: বাঙালি কথাসাহিত্যিক অমিয়ভূষণ মজুমদারের মৃত্যু
২০০৩: কবি সুভাষ মুখোপাধ্যায়ের মূত্যু
২০০৬: দীর্ঘ ৪৪ বছর বন্ধ থাকার পর নাথুলা পাস সীমান্তপথটি ভারত চীনের সাথে বাণিজ্যের উদ্দেশ্যে খুলে দেয়।



ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৭২.৮৯ টাকা ৭৬.৫৭ টাকা
পাউন্ড ৯১.০১ টাকা ৯৫.৮৯ টাকা
ইউরো ৮২.৩৪ টাকা ৮৬.৭৫ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ৪৯,১০০ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ৪৬,৫৮০ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ৪৭,২৮০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৪৯,২৭০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৪৯,৩৭০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]

দিন পঞ্জিকা

২৪ আষাঢ় ১৪২৭, ৮ জুলাই ২০২০, বুধবার, তৃতীয়া ১০/৪৩ দিবা ৯/১৯। ধনিষ্ঠা ৫০/৩৪ রাত্রি ১/১৫৷ সূর্যোদয় ৫/১/৫৬, সূর্যাস্ত ৬/২১/১২৷ অমৃতযোগ দিবা ৭/৪২ গতে ১১/১৪ মধ্যে পুনঃ ১/৫৪ গতে ৫/২৭ মধ্যে, রাত্রি ৯/৫৫ মধ্যে পুনঃ ১২/৩ গতে ১/২৮ মধ্যে। বারবেলা ৮/২২ গতে ১০/২ মধ্যে পুনঃ ১১/৪২ গতে ১/২১ মধ্যে। কালরাত্রি ২/২২ গতে ৩/৪২ মধ্যে।
২৩ আষাঢ় ১৪২৭, ৮ জুলাই ২০২০, বুধবার, তৃতীয়া দিবা ৯/২৫। ধনিষ্ঠা নক্ষত্র রাত্রি ২/৭। সূযোদয় ৫/২, সূর্যাস্ত ৬/২৩। অমৃতযোগ দিবা ৭/৪৩ গতে ১১/১৬ মধ্যে ও ১/৫৬ গতে ৫/২৮ মধ্যে এবং রাত্রি ৯/৫৬ মধ্যে ১২/৪ গতে ১/৩০ মধ্যে। কালবেলা ৮/২২ গতে ১০/২ মধ্যে ও ১১/৪২ গতে ১/২৩ মধ্যে। কালরাত্রি ২/২২ গতে ৩/৪২ মধ্যে।
১৬ জেল্কদ

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
গুড়াপে আদিবাসী ছাত্রীকে গণধর্ষণ
এক আদিবাসী ছাত্রীকে গণধর্ষণের ঘটনা ঘটল হুগলির গুড়াপে। গতকাল ...বিশদ

02:16:19 PM

কোচবিহারে আগ্নেয়াস্ত্র সহ ধৃত ৩
কোচবিহারে আগ্নেয়াস্ত্র সহ ৩ জনকে আটক করল কোতোয়ালি থানার পুলিস। ...বিশদ

01:45:49 PM

১১৬ দিন পর শুরু হচ্ছে ক্রিকেট, একনজরে পরিবর্তিত নিয়মাবলী 
দুই দলের দুই অধিনায়ক বেন স্টোকস এবং জেসন হোল্ডার ম্যাচ ...বিশদ

12:43:00 PM

পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন থাকলে করোনাকে আপনাকে ছুঁতে পারবে না: মমতা 

12:36:02 PM

করোনা নিয়ে ভয়ের কিছু নেই: মমতা 

12:32:45 PM

করোনা রুখতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখুন: মমতা 

12:31:47 PM