Bartaman Patrika
রাজ্য
 

‘যিনি কাজ চাইবেন, তাঁকে কাজ দিতে হবে’
১০০ দিনের কাজে ভুয়ো মাস্টার রোল
ঠেকাতে কড়া নির্দেশ পঞ্চায়েত দপ্তরের

সঞ্জয় গঙ্গোপাধ্যায়, কলকাতা: ১০০ দিনের কাজে মাস্টার রোলে ভুয়ো শ্রমিকের নাম থাকছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ভুয়ো নাম ঢুকিয়ে এক শ্রেণীর অফিসার ও পঞ্চায়েত কর্তারা কাটমানি খাচ্ছেন, সেই অভিযোগও উঠেছে। ভবিষ্যতে সেই অভিযোগ যাতে না ওঠে, তার জন্য পঞ্চায়েত দপ্তর সব জেলাশাসককে কড়া নির্দেশ পাঠিয়েছে। ওই নির্দেশে স্পষ্ট বলা হয়েছে, ‘ধরে-বেঁধে যাকে-তাকে নয়, যিনি কাজ চাইবেন ও ঠিকঠাক কাজ করতে রাজি হবেন, কাজ দিতে হবে তাঁদেরই’। এই নির্দেশের ফলে পরিষ্কার, কাজ দেওয়া হচ্ছে বলে যাঁদের নামের তালিকা তৈরি করা হচ্ছে, সেই তালিকায় গড়মিল রয়েছে।
১০০ দিনের কাজের প্রকল্পে পশ্চিমবঙ্গ এক নম্বরে থাকলেও গত লোকসভা ভোট থেকে এই প্রকল্পে কাটমানির অভিযোগ ওঠে। তাতে নড়েচড়ে বসে রাজ্য পঞ্চায়েত দপ্তর। কড়াকড়িও করা হয়। আবার কেন্দ্রীয় গ্রামোন্নয়ন মন্ত্রক এমন সব কড়াকড়ি করেছে যে, গ্রামের লোক এই প্রকল্পে কাজ করতে আগ্রহ দেখাচ্ছে না। তাই গত বছরের তুলনায় এ বছরে এই সময়ে কাজের পরিমাণ ও শ্রমদিবস তৈরির সংখ্যা অনেক কম। আগামী ৩১ মার্চের মধ্যে ২৮ কোটি শ্রমদিবস তৈরির লক্ষ্যমাত্রা থাকলেও তা পূরণ করা সম্ভব কি না, তা নিয়ে সংশয়ে রয়েছেন অফিসাররা।
কাজে গতি আনতে এবং কী ধরনের কাজ করা যাবে, তার জন্য ‘একশো দিনের কাজের একশো কথা’ নামের একটি গাইডলাইন তৈরি করে সব জেলার জেলাশাসক, জেলা প্রোগ্রাম কো-অর্ডিনেটর, জিটিএ’র প্রধান সচিব, শিলিগুড়ি মহকুমা পরিষদের অতিরিক্ত এগজিকিউটিভ অফিসারকে পাঠানো হয়েছে। সেই সঙ্গে সব গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান ও প্রোগ্রাম অফিসারদের ওই গাইডলাইন পৌঁছে দিতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তাতে প্রথমেই বলা হয়েছে, এই প্রকল্পের কাজ দয়া কিংবা করুণা নয়, মানুষের অধিকার। গ্রামের যে সব পরিবারে আঠারো বছর বা তার বেশি বয়সের মানুষ আছেন, সেই সব পরিবার জবকার্ড পাওয়ার যোগ্য। জবকার্ড চেয়ে কেউ গ্রাম পঞ্চায়েত অফিসে লিখিত আবেদন করলে তদন্ত সাপেক্ষে ১৫ দিনের মধ্যে তাঁকে জবকার্ড দিতে হবে।
নির্দেশে বলা হয়েছে, একটি পরিবারে একটি মাত্র জব কার্ড থাকবে। পরিবারের চাহিদা অনুযায়ী বছরে মোট ১০০ দিনের কাজ দিতে গ্রাম পঞ্চায়েত দায়বদ্ধ। কাজ পেতে হলে কাজ চাইতে হবে। নির্দিষ্ট ফর্মে বা সাদা কাগজে আবেদন করতে হবে। ১৫ দিনের মধ্যে যদি কাজ দেওয়া সম্ভব না হয়, তাহলে নির্দিষ্ট হারে বেকারভাতা দিতে হবে গ্রাম পঞ্চায়েতকে। যদি কোনও পঞ্চায়েত তা না মানে, তাহলে তাকে পঞ্চায়েত আইনে দোষী করা হবে। গাইডলাইনের ১৫ নম্বর ধারায় বলা হয়েছে, আমার পছন্দের লোককে কাজ দেব, অন্যদের কাজ দেব না—এমনটা করা যাবে না। হাতে কিছু জবকার্ড রেখে সেই জবকার্ড অনুযায়ী কাজ দেওয়া হবে, এমনটা করা যাবে না। এসব আইন বিরুদ্ধ। জবকার্ড পরিবারের কাছেই থাকবে। সুপারভাইজার, গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্য, গ্রাম পঞ্চায়েতের কর্মী বা অন্য কোনও তৃতীয় ব্যক্তির কাছে জবকার্ড রাখা চলবে না। এই কাজ আইনবিরুদ্ধ ও শাস্তিযোগ্য।
এই জবকার্ড নিয়েই বিস্তর অভিযোগ উঠেছে। তাই সতর্ক পঞ্চায়েত দপ্তর। কড়া নির্দেশিকা পাঠিয়ে মাস্টার রোলের মেয়াদ নির্ধারিত করে দেওয়া হয়েছে। ন্যূনতম ছ’দিনে একেকটি মাস্টার রোল ক্লোজ করা হবে। বড় কাজের ক্ষেত্রে তা ১৫ দিন পর্যন্ত খোলা থাকবে। গৃহনির্মাণের ক্ষেত্রে মেয়াদ হবে ৩০ দিন। পশ্চিমাঞ্চলের চারটি জেলায় মাস্টার রোল বন্ধ হবে ৩৫ দিনে। ১৫ দিনের মধ্যে শ্রমিকদের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে সরাসরি টাকা পাঠাতে হবে। টাকা দেওয়া নিয়ে যেন কোনও অভিযোগ না ওঠে।

08th  November, 2019
রাজ্যে ৪ হাজার ছাড়াল মোট আক্রান্ত 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: রাজ্যে ২৪ ঘণ্টায় ১৯৩ জন করোনায় আক্রান্ত হলেন। ফলে মোট আক্রান্তের সংখ্যা চার হাজারের গণ্ডি ছাড়িয়ে হল ৪,০০৯। সক্রিয় আক্রান্ত বেড়ে হয়েছে ২,২৪০। মৃতের তালিকায় যুক্ত হয়েছে আরও পাঁচজনের নাম।   বিশদ

আজ থেকে রাজ্যের মধ্যে
সরকারি দূরপাল্লার বাস

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: আজ, বুধবার থেকে রাজ্যের মধ্যে দূরপাল্লার সরকারি বাস চলাচল শুরু হচ্ছে। পরিবহণ দপ্তর জানিয়েছে, লকডাউনের আগের তুলনায় অনেক কম রুট দিয়েই পরিষেবার সূচনা হচ্ছে। কারণ, প্রতিটি বাসেই সামাজিক দূরত্ববিধি মেনে পরিষেবা দেওয়া হবে। নিয়মিত জীবাণুমুক্ত করা হবে বাস। বিশদ

ঝড়বৃষ্টির সম্ভাবনা থাকলেও ‘নিসর্গ’র সঙ্গে সম্পর্ক নেই
আতঙ্ক কাটাল আবহাওয়া দপ্তর 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: চলতি সপ্তাহে রাজ্যজুড়ে বিক্ষিপ্ত ঝড়বৃষ্টির সম্ভাবনা জিইয়ে রাখল আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর। হতে পারে কালবৈশাখীও। সপ্তাহের শেষের দিকে কলকাতায় বৃষ্টির পূর্বাভাসও রয়েছে।   বিশদ

শহরে সরবরাহ ফেরাতে সিইএসসিকে চাপ নবান্নর
যুদ্ধকালীন তৎপরতা গ্রামে, প্রধান বাধা জমে থাকা জল

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: রাজ্যের ৯০ শতাংশ পুর এলাকাতেই মঙ্গলবার বিদ্যুৎ এসে গিয়েছে। গ্রামে অবশ্য এখনও কিছু কাজ বাকি। সেই বাকি অংশে স্বাভাবিক অবস্থা ফেরাতেই যুদ্ধকালীন তৎপরতায় কাজ করছে প্রশাসন। এ কাজে গ্রামে প্রধান বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছে, জমে থাকা জল। পাশাপাশি, কলকাতাকে দ্রুত স্বাভাবিক করতে সিইএসসি’র উপর প্রবল চাপ তৈরি করেছে রাজ্য সরকার। ঘূর্ণিঝড় উম-পুন পরবর্তী পরিস্থিতিতে রাজ্যে বিদ্যুৎ, পানীয় জল, টেলিযোগাযোগসহ প্রাথমিক পরিষেবাগুলি অনেকাংশেই স্বাভাবিক করা সম্ভব হয়েছে বলে রাজ্য সরকার জানিয়েছে। জরুরি ভিত্তিতে হাসপাতালগুলিতে বিদ্যুৎ সংযোগ ফেরানো হয়েছে বলেও জানানো হয়েছে।  
বিশদ

জেলায় জেলায় রেশনে ডাল দেওয়ার ব্যবস্থা
করতে কেন্দ্রীয় সংস্থা নাফেডকে চিঠি রাজ্যের 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: রেশনের মাধ্যমে বন্টনের জন্য বিভিন্ন জেলায় ডাল পাঠানোর ব্যবস্থা করতে কেন্দ্রীয় সরকারি সংস্থা নাফেডকে চিঠি দিল রাজ্য খাদ্য দপ্তর। খাদ্য দপ্তরের পাঠানো চিঠিতে কোন জেলায় কোন গুদামে কী পরিমাণ ডাল পাঠাতে হবে তা উল্লেখ করা হয়েছে।   বিশদ

পরিযায়ী শ্রমিকদের নিয়ে তৈরি
তথ্য-পোর্টালকে স্থায়ী রূপ দিতে চায় কেন্দ্র 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: পরিযায়ী শ্রমিকদের বাড়ি ফেরার সমস্যা দূর করতে কেন্দ্রীয় সরকার একটি বিশেষ অনলাইন প্ল্যাটফর্ম তৈরি করেছিল। আগামী দিনে এই প্ল্যাটফর্মের তথ্যকে বিভিন্ন বিষয়ে কাজে লাগিয়ে পরিযায়ী শ্রমিকদের জন্য একটি জাতীয় নীতি তৈরি করার পথে এগচ্ছে কেন্দ্রীয় শ্রম মন্ত্রক।   বিশদ

৪৮ ঘণ্টায় সব স্বাভাবিক করতে বৈঠক মুখ্যমন্ত্রীর
কর্মরত আড়াই লক্ষ কর্মীকে কুর্নিশ মমতার 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে রাজ্যকে স্বাভাবিক করতে সোমবার ঈদের ছুটির মধ্যেই জরুরি বৈঠক করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সব জেলাশাসক এবং প্রত্যেকটি দপ্তরের প্রধান সচিবের সঙ্গে বৈঠক করেন তিনি। সেই বৈঠকে রাজ্যের মুখ্যসচিব রাজীব সিনহা, স্বরাষ্ট্রসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায় সহ সিনিয়র অফিসাররাও উপস্থিত ছিলেন। বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী প্রত্যেককে নির্দেশ দেন, যুদ্ধকালীন তৎপরতায় বিদ্যুতের সংযোগ ফেরাতে হবে এবং পানীয় জলের ব্যবস্থা করতে হবে।
বিশদ

26th  May, 2020
বাংলায় করোনা ভাইরাসের বলি আরও ৬ 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: ২৪ ঘণ্টায় আরও ১৪৯ জন আক্রান্ত হলেন নোভেল করোনায়। মারা গেলেন আরও ৬ জন। এর মধ্যে কলকাতার ৪ জন রয়েছেন এবং বাকিরা উত্তর ২৪ পরগনা ও হাওড়ার। মোট এবং সক্রিয় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হল যথাক্রমে ৩৮১৬ ও ২১২৪ জন।   বিশদ

26th  May, 2020
বিনামূল্যে রান্নার গ্যাস দিচ্ছে কেন্দ্র,
নেননি রাজ্যের সাড়ে ৩ লক্ষ গ্রাহক 

বাপ্পাদিত্য রায়চৌধুরী, কলকাতা: লকডাউনে আর্থিকভাবে পিছিয়ে পড়া মানুষের পাশে দাঁড়াতে বিনামূল্যে রান্নার গ্যাস দেওয়ার কথা ঘোষণা করে কেন্দ্রীয় সরকার। প্রধানমন্ত্রী গরিব কল্যাণ যোজনার আওতায় ওই সুবিধা দেওয়া হয়।   বিশদ

26th  May, 2020
পুজোর আগেই ১০ লক্ষ গৃহহীনকে বাড়ি,
নবান্নর নির্দেশে তালিকা চূড়ান্ত ৪ লক্ষের 

সঞ্জয় গঙ্গোপাধ্যায়, কলকাতা: মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘোষণা করেছিলেন ১০ লক্ষ গরিবকে বাড়ি তৈরি করে দেওয়া হবে। সেই নির্দেশ মেনে গত এক মাসে ৪ লক্ষ ২১ হাজার মানুষের তালিকা চূড়ান্ত হয়ে গিয়েছে।   বিশদ

26th  May, 2020
বিপর্যয়ে বিবর্ণ হল খুশির
ঈদ, নামাজ বাড়িতে 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: সোমবার কিছুটা বিবর্ণ পরিবেশের মধ্য দিয়ে কাটল খুশির ঈদের দিনটি। উধাও চিরপরিচিত সেই উৎসবমুখর ছবি। হল না রেড রোডের নামাজও। বেশিরভাগ মানুষই বাড়িতে থেকে নামাজ পাঠ করলেন। কারণ, মসজিদে সাধারণের প্রবেশ বন্ধ ছিল। শুনশান ছিল ঈদগাহগুলিও। বিশদ

26th  May, 2020
বিক্রি কমেছে অ্যান্টিবায়োটিকের
দূষণ কমায় পড়ে থাকছে ইনহেলারও 

বিশ্বজিৎ দাস, কলকাতা: দু’মাসের বেশি হয়ে গেল লকডাউন চলছে। এখনও বহু চিকিৎসকের চেম্বার বন্ধ। হাসপাতালে জরুরি ছাড়া অন্য চিকিৎসা প্রায় বন্ধ। পাশাপাশি ভয়ে রেস্তরাঁয় খাওয়াদাওয়া করছেন না অনেকে।   বিশদ

26th  May, 2020
লকডাউনেও রাজ্যে ৬ লক্ষের বেশি
ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে এল কন্যাশ্রীর টাকা  

সুমন তেওয়ারি, আসানসোল: করোনা ও উম-পুনের দাপটে বিধ্বস্ত বাংলায় বহু পরিবারকে ভরসা জোগাচ্ছে কন্যাশ্রীর টাকা। লকডাউনে বিপর্যস্ত অর্থনীতির মধ্যেও ৬ লক্ষের বেশি কন্যাশ্রীর অ্যাকাউন্টে এল রাজ্য সরকারের দেওয়া এক হাজার টাকা।  বিশদ

25th  May, 2020
কলকাতা ও শহরতলিতে স্বাভাবিক হচ্ছে জল-বিদ্যুৎ সরবরাহ
ছন্দে ফেরার লড়াই ঝড় বিধ্বস্ত বাংলার 

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: বিধ্বংসী ঘূর্ণিঝড় উম-পুনের প্রভাব কাটিয়ে ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হচ্ছে কলকাতা সহ গোটা রাজ্য। ফিরছে বিদ্যুৎ, জল সহ অন্যান্য পরিষেবা। কলকাতায় গাছ কেটে রাস্তা সাফ করছে সেনা, শুরু হচ্ছে যান চলাচল। গত বুধবারের সেই মহাপ্রলয়ে একদিকে বাংলার গ্রামের পর গ্রামজুড়ে কাঁচাবাড়ি ধূলিসাৎ, সব হারিয়ে নিরাশ্রয় মানুষ আর অন্যদিকে শহরে বিদ্যুৎ, জল না থাকায় চরম ভোগান্তি। সেই জায়গা থেকে যতটা দ্রুত সম্ভব রাজ্যকে ছন্দে ফেরানোই মুখমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে চ্যালেঞ্জ।
বিশদ

25th  May, 2020

Pages: 12345

একনজরে
নয়াদিল্লি, ২৬ মে: বিশাখাপত্তনমের এলজি পলিমারস কারখানার ৩০ জন কর্মী-আধিকারিককে ভিতরে ঢোকার অনুমতি দিল সুপ্রিম কোর্ট। সিল করে দেওয়া ওই কারখানার ভিতরে কারা কারা ঢুকবেন, সেই নামের তালিকা সংস্থার কাছে চেয়ে পাঠিয়েছে আদালত।  ...

রাষ্ট্রসঙ্ঘ, ২৬ মে (পিটিআই): রাষ্ট্রসঙ্ঘের শান্তিরক্ষা বাহিনীতে আরও বেশি করে মহিলাদের নিয়োগ করা উচিত। কঙ্গো থেকে এক ভিডিও সাক্ষাৎকারে এমনটাই জানিয়েছেন ইন্ডিয়ান ফিমেল এনগেজমেন্ট টিমের (এফ‌ইটি বা ফেট) কমান্ডার ক্যাপ্টেন প্রীতি শর্মা।   ...

সংবাদদাতা, গাজোল: লকডাউনের মধ্যে অনেক দিন আগেই বেকারির দোকানগুলিতে অত্যাশবশ্যা কীয় পণ্য হিসাবে নির্দিষ্ট সময় বেঁধে শুধুমাত্র পাউরুটি ও বিস্কুট বিক্রি করার অনুমতি মিলেছে।   ...

চণ্ডীগড়, ২৬ মে: পূর্ণ রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় শেষকৃত্য সম্পন্ন হল তিনবারের ওলিম্পিক সোনাজয়ী ভারতীয় হকির কিংবদন্তি বলবীর সিং সিনিয়রের। তাঁর প্রয়াণের শোক এখনও রয়েছে ভারতীয় ক্রীড়ামহলে। ...




আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম ( মিত্র )
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

সম্পত্তি রক্ষায় আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার প্রয়োজন। আত্মসমীক্ষার প্রয়োজনিয়তা রয়েছে। দাম্পত্যে মধুরতা বৃদ্ধি। প্রতিদ্বন্দ্বীকে হটিয়ে প্রেম ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৯৬৪: স্বাধীনতা সংগ্রামী ও ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহরুর মৃত্যু
১৯৬২: ভারতীয় ক্রিকেটার রবি শাস্ত্রীর জন্ম
১৯৭৭: শ্রীলঙ্কার ক্রিকেটার মাহেলা জয়বর্ধনের জন্ম



ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৭৩.৭৮ টাকা ৭৭.৫০ টাকা
পাউন্ড ৯০.০২ টাকা ৯৪.৮৪ টাকা
ইউরো ৮০.৪৬ টাকা ৮৪.৭৭ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ৪১,৮৮০ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ৩৯,৭৩০ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ৪০,৩৩০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৩৮,৮০০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৩৮,৯০০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]
22nd  March, 2020

দিন পঞ্জিকা

১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ২৭ মে ২০২০, বুধবার, পঞ্চমী ৪৯/০ রাত্রি ১২/৩২। পুনর্বসু নক্ষত্র ৬/১৯ দিবা ৭/২৮। সূর্যোদয় ৪/৫৬/২৯, সূর্যাস্ত ৬/১১/১। অমৃতযোগ দিবা ৭/৩৫ গতে ১১/৭ মধ্যে পুনঃ ১/৪৬ গতে ৫/১৭ মধ্যে। রাত্রি ৯/৪৫ মধ্যে পুনঃ ১১/৫৫ গতে ১/২১ মধ্যে। বারবেলা ৮/১৫ গতে ৯/৫৪ মধ্যে পুনঃ ১১/৩৪ গতে ১/১৩ মধ্যে। কালরাত্রি ২/১৫ গতে ৩/৩৬ মধ্যে। 
১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ২৭ মে ২০২০, বুধবার, পঞ্চমী রাত্রি ১০/২১। পুনর্ব্বসুনক্ষত্র দিবা ৬/২। সূর্যোদয় ৪/৫৬, সূর্যাস্ত ৬/১৩। অমৃতযোগ দিবা ৭/৩৫ গতে ১১/১০ মধ্যে ও ১/৫০ গতে ৫/২৬ মধ্যে এবং রাত্রি ৯/৫০ মধ্যে ও ১১/৫৮ গতে ১/২৪ মধ্যে। কালবেলা ৮/১৫ গতে ৯/৫৫ মধ্যে ও ১১/৩৫ গতে ১/১৪ মধ্যে। কালরাত্রি ২/১৫ গতে ৩/৩৬ মধ্যে। 
৩ শওয়াল 

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
বালিতে গাছ কাটতে গিয়ে তড়িদাহত দমকল কর্মী 
বালিতে বৈদ্যুতিন তারের উপর পড়ে থাকা গাছ কাটার সময় বিদ্যুৎস্পৃষ্ট ...বিশদ

03:12:36 PM

উদয়নারাণপুরে কিশোরীকে খুনের অভিযোগ প্রত্যাখ্যাত যুবকের বিরুদ্ধে 
প্রেমে প্রত্যাখ্যাত হয়ে একাদশ শ্রেণীর ছাত্রীর গলা কেটে খুনের অভিযোগ ...বিশদ

03:05:01 PM

আগামীকালের রাজ্য মন্ত্রিসভার বৈঠক বাতিল 
ঘূর্ণিঝড় উম-পুন পরবর্তী পরিস্থিতি মোকাবিলায় মন্ত্রীরা ছড়িয়ে রয়েছেন জেলায় জেলায়। ...বিশদ

01:48:44 PM

আপনার জেলায় কতজন করোনায় আক্রান্ত, জানুন 
রাজ্যে এ পর্যন্ত আরও করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৪,০০৯। ...বিশদ

12:32:03 PM

আজ দুপুরে ভিডিও কনফারেন্সে বৈঠক মমতার 
আজ দুপুর সাড়ে তিনটে নাগাদ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ভিডিও কনফারেন্সে ...বিশদ

12:30:36 PM

করোনা: ঝাড়খণ্ডে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ৪০৮ জন 

11:52:49 AM