দেশ

প্রকল্পের সুবিধা নিয়েও ভোট কংগ্রেসকে, হিমন্তর নিশানায় সংখ্যালঘুরা

গুয়াহাটি:  রাজ্যে লোকসভা ভোটে দলের ফলাফল বিশ্লেষণেও অসমের মুখ্যমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্বশর্মার গলায় ধর্মীয় বিভাজনের সুর। তাঁর দাবি, ‘হিন্দুরা সাম্প্রদায়িকতাকে প্রশ্রয় দেয় না। কেবল একটি ধর্মই এই কাজে লিপ্ত।’ ভোটের ফল বিশ্লেষণ করতে শনিবার বৈঠকে বসেছিল বিজেপি। হাজির ছিলেন অগপ এবং ইউপিপিএলের মতো জোট সঙ্গীরাও। এবার অসমের ১৪টি লোকসভা আসনের মধ্যে ১১টিই দখল করেছে বিজেপি-অগপ-ইউপিপিএল। তিনটি আসনে এনডিএ-র পরাজয়ের জন্য ‘বাংলাদেশ থেকে আগত সংখ্যালঘুদের’ দিকে আঙুল তুলেছেন হিমন্ত। তাঁর দাবি, সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পে সুবিধা নিয়েও সংখ্যালঘুরা ভোট দিয়েছে কংগ্রেসকে।
অসমের মুখ্যমন্ত্রী বলেন, বিজেপি নেতৃত্বাধীন এনডিএ রাজ্যে ৪৭ শতাংশ ভোট পেয়েছে। আর কংগ্রেস এবং তার জোটসঙ্গীরা পেয়েছে ৩৯ শতাংশ ভোট। হিমন্তের কথায়, ‘কংগ্রেসের ৩৯ শতাংশ ভোট কিন্তু সারা রাজ্য থেকে আসেনি। কেবল সংখ্যালঘু অধ্যুষিত ২১টি বিধানসভা এলাকা থেকেই তারা এই ভোট পেয়েছে। আর এই এলাকাগুলিতে বিজেপি পেয়েছে মাত্র ৩ শতাংশ ভোট।’এরপরেই  তিনি বলেন, ‘এই ফলাফলই প্রমাণ করে হিন্দুরা সাম্প্রদায়িকতাকে প্রশ্রয় দেয় না। অসমের একটি সম্প্রদায়ই এই কাজ করে থাকে।’ তবে তিনি কোনও সম্প্রদায়ের নাম করেননি। তাঁর কথায়, সংখ্যালঘু অধ্যুষিত এলাকায় কংগ্রেসের আমলে রাস্তা, বিদ্যুৎ সংযোগ ছিল না। এরপরও তারা কাতারে কাতারে কেবল কংগ্রেসকেই ভোট দিয়ে আসছে। ভবিষ্যতেও তারা এই কাজ করবে। তিনি বলেন, অসমের মানুষ এবং আদিবাসীদের জন্য বিজেপি প্রচুর কাজ করেছে। এরপরেও তাঁরা ১০০ শতাংশ ভোট বিজেপিকে দেয়নি। অথচ করিমগঞ্জের ৯৯ শতাংশ ভোট কংগ্রেস পেয়েছে বলে তিনি জানিয়েছেন। বারবার সংখ্যালঘুদের প্রতি উষ্মা প্রকাশ করেছেন হিমন্ত। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর মোদির দেওয়া ঘরে সংখ্যালঘুরা থাকেন। কেন্দ্রের বিদ্যুৎ তাঁরা ব্যবহার করেন। মোদির স্বাস্থ্য পরিষেবাও তাঁরা পান। কিন্তু ভোটের সময় হলেই তাঁরা কংগ্রেসকে ভোট দেন।
26d ago
কলকাতা
রাজ্য
বিদেশ
খেলা
বিনোদন
ব্ল্যাকবোর্ড
শরীর ও স্বাস্থ্য
বিশেষ নিবন্ধ
সিনেমা
প্রচ্ছদ নিবন্ধ
আজকের দিনে
রাশিফল ও প্রতিকার
ভাস্কর বন্দ্যোপাধ্যায়
mesh

গুরুজনের থেকে অর্থকড়ি লাভ হতে পারে। স্বার্থান্বেষী আত্মীয়-স্বজনের সঙ্গে দূরত্ব রেখে চলুন। মনে চাঞ্চল্য।...

বিশদ...

এখনকার দর
ক্রয়মূল্যবিক্রয়মূল্য
ডলার৮২.৮১ টাকা৮৪.৫৫ টাকা
পাউন্ড১০৬.৫৫ টাকা১১০.০৬ টাকা
ইউরো৮৯.৫৫ টাকা৯২.৭১ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
*১০ লক্ষ টাকা কম লেনদেনের ক্ষেত্রে
দিন পঞ্জিকা