হ য ব র ল
 

ফুটবল না ক্রিকেট? 

ফুটবল বা ক্রিকেট যাইহোক, জনপ্রিয় এই দুটি খেলা নিয়ে ছোটদের উন্মাদনা চিরকাল। যদিও কোনটি সেরা তা নিয়ে আড্ডা-আলোচনা দু’ভাগ হয়ে যায়! তর্ক-বিতর্ক চলে সর্বত্র, সবসময়। এ নিয়ে সাউথ পয়েন্ট হাইস্কুলের ছাত্র-ছাত্রীরা তাদের পছন্দের খেলা নিয়ে মতামত জানিয়েছে।
আর্জেন্টিনা হেরে যাওয়ায় কেঁদে ফেলেছিলাম
ফুটবল আমার বেশি ভালো
লাগে। খেলার মাঠে বল খেলোয়াড়ের পায়ে পায়ে যেভাবে ঘুরতে থাকে সেটা অসাধারণ লাগে। পাড়ার দাদার সঙ্গে ফুটবল খেলতে ভালো লাগে। মেসি আমার প্রিয় ফুটবলার। বার্সেলোনার খেলা দেখতে ভালোবাসি। এছাড়া আই লিগ, ইপিএল, ফিফা বিশ্বকাপ দেখতেও ভালোবাসি। আন্তর্জাতিক স্তরে আর্জেন্তিনাকে সমর্থন করি। ফাইনালে আর্জেন্তিনা হেরে যাওয়ায় গোটা পরিবার কেঁদেছিলাম। সারারাত পরিবারের সঙ্গে বসে বিশ্বকাপ দেখার মজাটা দারুণ। মেসির নিজস্ব স্টাইলের খেলা, বল পায়ে নিয়ে ছোটা ভাষায় প্রকাশ করা যায় না। তাঁর অনুগতভাবে টিমের জন্য খেলা আমায় অনুপ্রাণিত করে। মাঠে গিয়ে ফুটবল বিশ্বকাপ দেখাটা আমার স্বপ্ন।
অনুশ্রী জৈন, দশম শ্রেণি
ফুটবলই সেরা
ফুটবলের মতো খেলাই হয় না। ফুটবলের উত্তেজনা, গোল করা ভালো লাগে। রোনোল্ডো প্রিয় খেলোয়াড়। ওঁর খেলার কায়দা,
গোল করা আমার বেশ
পছন্দ। আমি ভাই-বোনেদেরও ফুটবল খেলা দেখতে অনুপ্রাণিত করি। বাবার সঙ্গে একবার যুবভারতীতে
ফুটবল খেলা
দেখতে গিয়েছি।
সনি নরদে আমার
প্রিয় খেলোয়াড়। গোল হওয়ার মুখে ‘সনি’ ‘সনি’ চিৎকারটা খুব উপভোগ করি। ফিফা বিশ্বকাপ ও আন্ডার-২০ জুনিয়র ওয়ার্ল্ড কাপে যুবভারতীতে খেলা দেখার সুযোগ পেলে যাব।
দিশা পান্ডে, ষষ্ঠ শ্রেণি
আমার প্রিয় খেলা ক্রিকেট
ক্রিকেট খেলা দেখতে ভালো লাগে। বিরাট কোহলি প্রিয় ক্রিকেটার। ওঁর ব্যাটিং স্টাইল আমার ভালো লাগে। লম্বা কোনও টুর্নামেন্ট সেভাবে দেখি না। তবে আইপিএল দেখছি। কলকাতা নাইট রাইডার্সকে সমর্থন করি। এখানেও কোহলি প্রিয়। ক্রিকেটের প্রতি মুহূর্তের উত্তেজনাকে আমি ভালোবাসি। সুযোগ পেলে বিশ্বকাপের ‘লাইভ’ খেলা দেখতে চাই। আর প্রাক্তন অধিনায়ক হিসাবে সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় আমার মন জয় করেছেন।
সোহনা পাল, সপ্তম শ্রেণি
ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে ক্রিকেট বিশ্বকাপের ম্যাচ দেখতে চাই
ক্রিকেট আমার প্রিয়, পুরো খেলাতেই বোঝা যায় না কখন খেলা ঘুরে যাবে। কে কেমন খেলবে। অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত বিজয় সম্মিলনী ক্লাবের হয়ে ক্রিকেট খেলেছি। ক্লাস ফাইভে একবার স্কুলে খেলেছিলাম। মহেন্দ্র সিং ধোনি আমার প্রিয় খেলোয়াড়। ধোনি গোটা দলকে একসঙ্গে বেঁধে রাখে। আজ পর্যন্ত তঁার সব সিদ্ধান্তই দলের পক্ষে গিয়েছে। আপিএলে নাইট রাইডার্স এবং গৌতম গম্ভীরের আমি ভক্ত। এছাড়া টি-২০ বিশ্বকাপ দেখি। ইডেনে নিজেও খেলেছি আর কে কে আর, ভারত-পাকিস্তান ৫০ ওভারের খেলা দেখতে গিয়েছি। অামার স্বপ্ন ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে লাইভ বিশ্বকাপ ম্যাচ দেখা।
অরণী মল্লিক, নবম শ্রেণি
ক্রিস গেইলকে নাইট রাইডার্সে দেখতে চাই
ক্রিকেটই আমার পছন্দ। আমি নিজে ক্রিকেট শিখতেও চাই। এক একটা ম্যাচ ভীষণ ইন্টারেস্টিং হয়। কখন খেলা ঘুরে যেতে পারে, সঙ্গে চার-ছয় তো থাকেই। ধোনি আমার প্রিয় খেলোয়াড। আটাশ বছর পর ভারত ওর হাত ধরে বিশ্বকাপ জিতেছে। ওর উইকেট কিপিং, হেলিকপ্টার শট এবং দক্ষ অধিনায়কত্ব আমাকে আকৃষ্ট করে। আই পি এলে ক্রিস গেইল আমার প্রিয়। রবীন উত্থাপ্পার জন্য আমি নাইট রাইডার্সের ভক্ত। আমার ইচ্ছে ইডেন গার্ডেনে ম্যাচ দেখা।
সৌমিক চট্টোপাধ্যায়, অষ্টম শ্রেণি
সৌরভের হাত থেকে পুরস্কার নিয়েছি
ক্রিকেটই বেশি প্রিয়। আমি স্কুলের পাশাপাশি ক্লাবেও খেলি। দক্ষিণ চব্বিশ পরগনার হয়ে জেলাস্তরেও খেলেছি। প্রিয় খেলোয়াড় বিরাট কোহলি। আই পি এলেও আর সি বি-র সমর্থক। বিশ্বকাপের সময় উদ্বেগ ও আনন্দ দুই মিলেই ভারতকে সমর্থন করি। বার্সেলোনা এবং মেসিও আমার প্রিয়। ওঁর খেলা আমাকে অনুপ্রাণিত করে। রাত জেগে ফুটবল বিশ্বকাপও দেখি। তবে বন্ধুদের সঙ্গে আইপিএল দেখার উত্তেজনাও যথেষ্ট থাকে। আমার ক্রিকেটের সবচেয়ে প্রিয় মুহূর্ত স্কুল সিএবি খেলার সূত্রে ইডেনে গার্ডেনে প্রবেশ এবং প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের হাত থেকে পুরস্কার নেওয়া।
তূহিন চৌধুরি, দশম শ্রেণি
ফুটবলার হতে চাই
ফুটবল আমার এতটাই প্রিয় যে আমি ফুটবলার হতে চাই। এই খেলার টানটান উত্তেজনা, উদ্বেগ, আবেগ সবসময়ই প্রেরণা জোগায়। রোনাল্ডো আমার প্রিয় খেলায়াড়। রিয়েল মাদ্রিদ যখন এক গোলে পিছিয়ে থাকে তখন আমার উত্তেজনা শুরু হয়। পর্তুগাল বনাম ফ্রান্সের খেলা দেখতে খুব ভালোবাসি। বার্সেলোনার বিরুদ্ধে রোনাল্ডোর হেড করা গোল এক স্মরণীয় মুহূর্ত। এছাড়া মোহনবাগান আমার আবেগ। মোহনবাগানের হয়ে খেলতেও চাই। ভারতে ফুটবল এখনও পিছিয়ে। সুপার লিগের মতো পদক্ষেপের পাশাপাশি জেলাস্তরেও প্রতিযোগিতামূলক ম্যাচ হলে ভালো। এখান থেকে ভালো ফুটবলার খুঁজে আনা যায়। আর এদের ঠিকমতো প্রশিক্ষণ দিলে ফুটবলও সমান জনপ্রিয় হবে। যুবভারতীতে খেলা দেখি। তবে সুযোগ পেলে জুনিয়র ফিফা বিশ্বকাপও দেখতে চাই।
সৌরাশিস মুখোপাধ্যায়, নবম শ্রেণি
ফুটবল ও ক্রিকেট দুই-ই প্রিয়
ফুটবল ও ক্রিকেট দুটিই সমান ভালো লাগে। ফুটবলের উত্তেজনা, গোল করা, ৯০ মিনিট টানা দৌড়ে যাওয়া এসবের জন্যই ফুটবল দেখি। রোনোল্ডো এবং রিয়েল মাদ্রিদ আমার প্রিয়। ক্রিকেট হলে কলকাতা নাইট রাইডার্স। বহুবার ইডেনে ম্যাচ দেখেছি। কলকাতায় ক্রিকেট বেশি জনপ্রিয় হলেও আইএসএল আসার পর মানুষ ফুটবলও সমানে উপভোগ করছেন। বিরাট কোহলি, ধোনি আমার প্রিয় ক্রিকেটার। তবে কোহলির ‘কভার ড্রাইভ’ আমি শেখার চেষ্টা করছি। সাউথ ক্যালকাটা ক্লাব, স্কুলের হয়ে খেলি। অধিনায়ক হিসাবে সৌরভ আর খেলোয়াড় হিসাবে শচীনকে ভালো লাগে। ফুটবলে আর্জেন্তিনা ও মেসিকে
সমর্থন করি। সুযোগ হলে বিশ্বকাপের
মাঠে সরাসরি ভারতের খেলা দেখতে চাই।
প্রিয়াণজিৎ ভট্টাচার্য,
নবম শ্রেণি
রূপা সান্যাল ভট্টাচার্য, প্রিন্সিপাল
সাউথ পয়েন্ট স্কুলের প্রতিষ্ঠা হয় ১ এপ্রিল, ১৯৫৪ সালে। স্বর্গীয় সতিকান্ত গুহ এবং তাঁর স্ত্রী প্রীতিলতা গুহর তত্ত্বাবধানে মাত্র ২০ জন ছাত্র-ছাত্রীকে নিয়ে পথ চলা শুরু। বর্তমানে জুনিয়র-হাইস্কুল মিলিয়ে মোট ছাত্রছাত্রীর সংখ্যা ১২ হাজারেরও বেশি। হাইস্কুলে ২৬০ জন শিক্ষিকা। ৮০ জন কর্মচারী, নয়ের দশকে এম পি বিড়লা গ্রুপ সাউথ পয়েন্ট স্কুলের দায়িত্ব নেয়। ১৯৮৪-৯২ সাল পর্যন্ত গিনিস বুক অফ ওয়ার্ল্ড সাউথ পয়েন্টকে অন্যতম বৃহত্তম স্কুল হিসেবে ঘোষণা করে। অক্সফোর্ড সহ সারা পৃথিবীব্যাপী গুরুত্বপূর্ণ পদে স্কুলের প্রাক্তনীরা প্রতিষ্ঠিত। ২০১১ সালে সি বি এস ই এবং ওয়েস্ট বেঙ্গল বোর্ড ভাগ হয়ে যায়। পড়াশুনায় ছাত্র-ছাত্রীরা যেমন মেধাবী খেলাধুলাতেও তেমন পারদর্শী। সিএবি-র টুর্নামেন্ট, জাতীয় স্তরের খেলায় দল জিতে এসেছে।
দাবা খেলায় আমরা জোর দিই। গত বছর দীপ্তায়ন ঘোষ গ্র্যান্ড মাস্টার হয়েছে। এছাড়াও গান, নাচ, বিদেশি ভাষা, ক্যারাটে, বাদ্যযন্ত্র তারা শিখছে। নাটকের ব্যাপারে ছাত্র-ছাত্রীদের আমরা বিশেষভাবে উৎসাহ দিই। প্রতি বছর এমপি বিড়লা স্মারক কোষ নামাঙ্কিত আন্তঃ স্কুল নাট্য প্রতিযোগিতা হয়। কুইজ পরিচালনাতেও আমাদের স্কুল পারদর্শী। আমরা ক্লাসরুমের শিক্ষায় বিশ্বাসী। দক্ষ শিক্ষক-শিক্ষিকাদের তত্ত্বাবধানে ছাত্র-ছাত্রীরা মেধাবী ও পটু হয়ে ওঠে। একাদশ-দ্বাদশ শ্রেণিতে আমাদের বিজ্ঞান, কলা, বাণিজ্য তিন বিভাগেই পড়ানো হয়। উন্নত পঠন-পাঠন ল্যাবরেটরি ছাত্র-ছাত্রীদের করছে আকর্ষণীয়। একমাত্র নার্সারিতে ছাত্র-ছাত্রী ভরতি নেওয়া হয়। উন্নত লাইব্রেরিতে প্রায় ৩০ হাজারেরও বেশি বই আছে। বই পড়তে আমরা ছাত্র-ছাত্রীদের উৎসাহ দিই। মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রীর অনুমতিতে নতুন ক্যাম্পাসে আমরা আরও নতুন বিষয় নিয়ে পঠনপাঠন চালু করব। বর্তমানে ৪টে ল্যাব ছাড়াও বায়ো-টেকনোলজি ল্যাব, রোবটিক ল্যাবও চালু করব। খেলাধুলোর জন্য বর্তমানে আমাদের মাঠের অভাব অদূর ভবিষ্যতে সমাধান করতে পারব বলে বিশ্বাস রাখি।
সংকলক: বিশাখা দত্ত, ছবি: বিশ্বজিৎ কুণ্ডু
14th  May, 2017
ছোটদের রান্নাঘর 
ওরিও মিল্ক শেক ও হোম স্টাইল কুকিস

তোমাদের জন্য শুরু হল একটি আকর্ষণীয় বিভাগ ছোটদের রান্নাঘর। এই বিভাগ পড়ে তোমরা নিজেরাই তৈরি করে ফেলতে পারবে লোভনীয় খাবারদাবার। বাবা-মাকেও চিন্তায় পড়তে হবে না। কারণ আগুনের সাহায্য ছাড়া তৈরি করা যায় এমন রেসিপিই থাকবে তোমাদের জন্য। এবার সেরকমই দুটি জিভে জল আনা রেসিপি দিয়েছেন দ্য ললিত গ্রেট ইস্টার্ন কলকাতা হোটেলের এক্সিকিউটিভ পেস্ট্রি শেফ অয়ন চট্টোপাধ্যায়।  বিশদ

ছোটদের ‘ডাকঘর’  

কোনও নাট্য দলের সতেরো বছর বয়স হওয়াটা খুব ছোট কথা নয়। অনেক অসুবিধার মধ্যে দিয়ে কয়েক জন নাট্যপ্রাণ মানুষের আপ্রাণ চেষ্টায় সতেরো বছরের তরুণ হাওড়ার শিল্পী সংঘ। এই নাট্য দলটি শুধু নিজেদের নাটক চর্চা নিয়েই থেমে থাকেনি।
বিশদ

আর্কিমিডিসের বুদ্ধি 

ছোট্ট বন্ধুরা তোমাদের আজ যে গল্পটা বলব, সেটা খ্রিস্টের জন্মের প্রায় আড়াইশো বছর আগের ঘটনা। গ্রিসের উপনিবেশ সিসিলির সিরাকিউস রাজ্য আক্রমণ করেছিল রোমান সেনা। সিরাকিউসের রাজা হিয়ারো বুঝতে পেরেছিলেন তাঁর সৈন্যসামন্ত রোমান সেনার সঙ্গে এঁটে উঠতে পারবে না।
বিশদ

রথযাত্রা মহা ধুমধাম... 

আষাঢ় মাস পড়লেই শুরু হয়ে যায় রথযাত্রার কাউন্টডাউন। রথ সাজানোর প্রস্তুতি শুরু হয় কয়েকদিন আগে থেকেই। রঙিন কাগজে একতলা, দু’তলা রথ সাজিয়ে জগন্নাথ, বলরাম, সুভদ্রাকে প্রণাম করে বাবা-মায়ের সঙ্গে রথ টানা, ভেঁপু বাজানো ও রথের মেলায় ঘোরা—এ এক অদ্ভুত উন্মাদনা। রথ টানার আনন্দের কথা জানালো হুগলি ব্রাঞ্চ (সরকারি) স্কুলের ছাত্ররা।
 
বিশদ

মার্কশিট 

তোমাদের জন্য শুরু হয়েছে নতুন বিভাগ। এই বিভাগে থাকছে পরীক্ষায় নম্বর বাড়ানোর সুলুক সন্ধান। এবারের বিষয় ভৌতবিজ্ঞান।
বিশদ

18th  June, 2017
নীলনদের অজানা তথ্য 

আফ্রিকা একটি বৈচিত্রপূর্ণ দেশ। এখানে অনেক ধরনের দুর্লভ জীবজন্তু এবং রহস্যজনক সব জায়গার সমাবেশ ঘটেছে। এখানে পৃথিবীর প্রায় ধরনের জীবজন্তুরই দর্শন মেলে। বন্য মহিষ, বন্য হাতি, শিম্পাঞ্জী, গোরিলা সহ একাধিক জীবজন্তুর দেখা পাওয়া যায়।
বিশদ

18th  June, 2017
জা না-অ জা না 

যুগান্তকারী আবিষ্কার
সকালে ঘুম থেকে উঠেই তোমাদের কেউ হয়তো প্রথমে চশমাটা পড়ে নাও, এরপর রেডিও বা টেলিভিশন চালু করো এবং নিউজপেপারটা হাতে নিয়েই পড়া শুরু করো। এর মাঝেই কিন্তু তুমি গত ১০০০ বছরের ইতিহাসের তিনটি যুগান্তকারি আবিষ্কারকে ব্যবহার করে ফেলেছ, চশমার লেন্স, তারহীন যোগাযোগ এবং প্রিন্টিং প্রেস।
বিশদ

18th  June, 2017
সিলেবাসে যদি না থাকতো... 

ছাত্র-ছাত্রীরা মনে করে, সিলেবাসে যদি অপছন্দের বিষয়গুলি না থাকতো, তাহলে পরীক্ষায় কী ভালো ফলই না হত। বরাবরই অপছন্দের বিষয়গুলিকে তারা সিলেবাসে রাখার পক্ষপাতী নয়। সিলেবাসে কী থাকবে আর থাকবে না, বাছাইয়ের দায়িত্বে যদি তারাই থাকতো তাহলে তো অপছন্দের বিষয়গুলি ততক্ষণাৎ বাদ পড়ত। এবার উত্তরপাড়া রাষ্ট্রীয় উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীরা জানালো সিলেবাসে কী না থাকলে তাদের ভালো হত। 
বিশদ

18th  June, 2017
পৃথিবীর আশ্চর্যজনক কিছু বন্যপ্রাণী 

প্রকৃতির আবিষ্কারের ছন্দে পৃথিবীতে দেখা দিয়েছে আশ্চর্য সব জীবজন্তুদের রাজত্ব। এই লেখায় তোমাদের জন্য থাকছে সেরকমই কিছু অসাধারণ জীবজন্তুর সম্বন্ধে বিস্ময়কর তথ্য। আকর্ষণীয় ক্যাঙ্গারু, সুন্দর দেখতে কোয়ালা ও আশ্চর্যজনক ক্লাউন মাছের মধ্যে কে সবথেকে সুন্দর?
বিশদ

11th  June, 2017
সোনার ট্রেন বৃত্তান্ত 

সোনার হরিণ, সোনার ডিম, সোনার পাথরবাটি ইত্যাদি গল্প অনেকেরই শোনা আছে। কিন্তু সোনার ট্রেনের গল্প বা এ ধরনের কোনও কাহিনি কারও জানা আছে? আসলে গোটা একটি ট্রেন সোনার তৈরি, নাকি ট্রেনভর্তি সোনা আছে তা আগে জানা দরকার।
বিশদ

11th  June, 2017



একনজরে
নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: আগামী মরশুমেও মোহন বাগানের কোচ থাকছেন সঞ্জয় সেন। তাঁর কাছে অন্য কোনও ক্লাবের অফার ছিল না। মোহন বাগানও ‘এ’ লাইসেন্সধারী ভালো কোচ পেত না। শনিবার সঞ্জয় সেন স্বীকার করে নেন, ‘মোহন বাগানের এক শীর্ষ কর্তা আমাকে আগামী ...

সংবাদদাতা, আলিপুরদুয়ার:বিজেপির বিস্তারক কর্মসূচির মোকাবিলায় তৃণমূল কংগ্রেস বীরভুম জেলায় ইতিমধ্যেই পালটা বিস্তারক কর্মসূচি শুরু করেছে। এবার পঞ্চায়েত ভোটের আগাম প্রস্তুতি হিসাবে তৃণমূলের আলিপুরদুয়ার-১ ব্লক সভাপতি মনোরঞ্জন দে তাঁর ব্লকে বুথ ভিত্তিক খুলি বৈঠক শুরু করেছেন। ...

 নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: স্ত্রী ও শাশুড়ির বঁটির কোপে গুরুতর আহত হয়ে হাসপাতালে ভরতি হলেন স্বামী। শুক্রবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে নিউটাউনের প্রমোদগড় বাজার এলাকায়। স্থানীয় সূত্রের খবর, পারিবারিক বিবাদের জেরে শুভঙ্কর সরকারের সঙ্গে বেশ কিছুদিন ধরেই তাঁর স্ত্রীর অশান্তি চলছিল। ...

 বেজিং, ২৪ জুন (পিটিআই): বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী সাবমেরিন ডিটেক্টর আবিষ্কার করল চীন। আজ ‘দ্য চাইনিজ আকাদেমি অব সায়েন্সেস’-এর একদল বিজ্ঞানী এই দাবি করেছেন। ...


আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষায় সাফল্য আসবে। প্রেম-প্রণয়ে আগ্রহ বাড়বে। তবে তা বাস্তবায়িত হওয়াতে সমস্যা আছে। লৌহ ও ... বিশদ



ইতিহাসে আজকের দিন

 ১৯০৩- ইংরেজ সাহিত্যিক জর্জ অরওয়েলের জন্ম
১৯৬০- কবি সুধীন্দ্রনাথ দত্তের মৃত্যু
১৯৭৪- অভিনেত্রী করিশ্মা কাপুরের জন্ম
১৯৭৫- প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী দেশে জরুরি অবস্থা জারি করলেন
২০০৯- মার্কিন পপ সংগীত শিল্পী মাইকেল জ্যাকসনের মৃত্যু




ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৬৩.৭৫ টাকা ৬৫.৪৩ টাকা
পাউন্ড ৮০.৬৪ টাকা ৮৩.৪২ টাকা
ইউরো ৭০.৭৬ টাকা ৭৩.২৮ টাকা
24th  June, 2017
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ২৯,২২৫ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ২৭,৭২৫ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ২৮,১৪০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৩৯,১০০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৩৯,২০০ টাকা

দিন পঞ্জিকা

১০ আষাঢ়, ২৫ জুন, রবিবার, দ্বিতীয়া রাত্রি ১/২, পুনর্বসুনক্ষত্র রাত্রি ১১/২৫, সূ উ ৪/৫৭/৩৬, অ ৬/২০/৩৬, অমৃতযোগ ৬/৪৪-৯/২৫ পুনঃ ১২/৫-২/৪৫ রাত্রি ৭/৪৫ পুনঃ ১০/৩৫-১২/৪৩, বারবেলা ৯/৫৮-১/১৯, কালরাত্রি ১২/৫৯-২/১৯।

রথযাত্রা উৎসব
রাত্রি ১/৩৮/২৯ অম্বুবাচী নিবৃত্তিঃ

১০ আষাঢ়, ২৫ জুন, রবিবার, প্রতিপদ ৬/২১/২১ পরে দ্বিতীয়া রাত্রিশেষ ৪/৮/৫০, পুনর্বসুনক্ষত্র ২/৪৯/৪৫, সূ উ ৪/৫৪/৫৩, অ ৬/২২/১২, অমৃতযোগ দিবা ৪/৪২/৩১-৯/২৩/৫৯, ১২/৫/২৭-২/৪৬/৫৫ রাত্রি ৭/৪৬/৩৩, ১০/৩৫/১৬-১২/৪১/৪৮, বারবেলা ৯/৫৭/৩৮-১১/৩৮/৩৩, কালবেলা ১১/৩৮/৩৩-১/১৯/২৮, কালরাত্রি ১২/৫৭/৩৮-২/১৬/৪৩।

রথযাত্রা উৎসব
রাত্রি ১/৩৮/২৯ অম্বুবাচী নিবৃত্তিঃ
২৯ রমজান

ছবি সংবাদ


এই মুহূর্তে
গোপন সূত্রে খবর পেয়ে বনগাঁর গনরাপোতা বাজার এলাকা থেকে ১৫০টি বিরল প্রজাতির কচ্ছপ উদ্ধার করল পুলিশ, গ্রেপ্তার ৬

10:20:00 AM

লখনউতে ১৪ বছর বয়সী এক পুলিশ অফিসারের কন্যার আত্মহত্যা, চাঞ্চল্য

10:16:00 AM

পাকিস্তানের বাহাওয়ালপুরে তেলের ট্যাঙ্কার থেকে আগুন লাগার ঘটনায় মৃত শতাধিক, গুরুতর জখম ৪০

10:14:00 AM

শহরে ট্রাফিকের হাল
আজ, রবিবার সকালে শহরের রাস্তাঘাটে যান চলাচল মোটের উপর স্বাভাবিক। ট্রাফিকের সামান্য চাপ রয়েছে এজেসি বসু রোড, ইএম বাইপাস, মা উড়ালপুল, পার্কস্ট্রিটের মতো গুরুত্বপূর্ণ রাস্তাগুলিতে। এদিন শহরে তেমন কোনও বড় মিটিং-মিছিলের খবর নেই। ফলে মোটামুটি সারাদিনই শহরের যান চলাচল স্বাভাবিক থাকবে বলেই মনে করা হচ্ছে। তবে আজ রথযাত্রাকে ঘিরে বেশ কয়েকটি রাস্তায় যানজট দেখা দিতে পারে। ইসকনের রথ অ্যালবার্ট রোড থেকে হাঙ্গারফোর্ড স্ট্রিট, এজেসি বোস রোড, শরৎ বসু রোড, হাজরা রোড, এসপি মুখার্জি রোড, আশুতোষ মুখার্জি রোড, চৌরঙ্গি রোড, এক্সাইড ক্রসিং, জওহরলাল নেহরু রোড, আউটরাম রোড হয়ে ব্রিগেড প্যারেড গ্রাউন্ডে এসে থামবে। ব্রিগেড প্যারেড গ্রাউন্ডে যে ক’দিন ইসকনের রথ থাকবে, সেই ক’দিন সেখানে প্রসাদ বিতরণ, নানা বিনোদনমূলক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হবে। অন্যদিকে, মেট্রোর কাজের জন্য ২৯ জুন থেকে ৩ জুলাই পর্যন্ত বন্ধ থাকবে ব্রাবোর্ন রোড ফ্লাইওভার ব্রিজ। সেই সময় সমস্ত গাড়ি মহাত্মা গান্ধী রোড, পোস্তা ও স্ট্যান্ড রোড দিয়ে ঘুরিয়ে দেওয়া হবে। তার ফলে ওই এলাকাগুলিতে যানজট দেখা দিতে পারে। কলকাতা পুলিশ জানিয়েছে, মা ফ্লাইওভারের নতুন ফ্ল্যাংকের নির্মাণ কাজ চলায় আগামী ৩১ আগস্ট পর্যন্ত কড়েয়া রোড ও বেকবাগান রো'র মধ্যবর্তী সার্কাস এভিনিউ'র দক্ষিণ অভিমুখও বন্ধ থাকবে। তার জেরে ওই এলাকাতেও যানজটের সম্ভাবনা রয়েছে। ট্রাফিক সংক্রান্ত যে কোনও খবরাখবরের জন্য কলকাতা পুলিশের টোল ফ্রি নম্বর ১০৭৩-তে ফোন করুন।

10:02:00 AM

মধ্য জাপানে ভূমিকম্প, রিখটার স্কেলে ৫.২

09:38:00 AM

চীনে ভূমিধস, মৃত ১৫, নিখোঁজ শতাধিক

09:34:00 AM