হ য ব র ল
 

রবির কিরণে হাসি ছড়ায়ে... 

সারা বছরই রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের কবিতা পাঠ করি
আমি হোস্টেলে থাকি। সারা বছরই রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের কবিতা পাঠ করি, গান করি। ২৫ শে বৈশাখ আমাদের স্কুলে আলাদা করে কিছু হয় না। সকাল হলেই বড় দাদা-দিদিদের সঙ্গে বৈতালিকে যাই। সেখানে নানা অনুষ্ঠান দেখি। দিদি, দাদারা গান করে, নাচের অনুষ্ঠান হয়। মন্দিরে মন্ত্রোচারণ হয়। সেখানেও যাই। পরে হোস্টেলে ফিরে আসি। এরপরে খাওয়া দাওয়া করে রবি ঠাকুরের কবিতার বইগুলি পড়ি।
শুভমিতা মাহাতো, চতুর্থ শ্রেণি
রবীন্দ্র জয়ন্তীর গান
গাওয়ার মুহূর্তটা ভুলব না
গত বছর ২৫ শে বৈশাখ পাড়ার রবীন্দ্র জয়ন্তী অনুষ্ঠানে আমি প্রথম উদ্বোধনী সংগীত গেয়েছিলাম। ওই মুহূর্তটা আমি কখনও ভুলব না। রবীন্দ্র জয়ন্তী অনুষ্ঠানে উদ্বোধনী সংগীত গাইতে পেরে আমার খুব ভালো লেগেছে। তবে এর আগেও রবীন্দ্র জয়ন্তী অনুষ্ঠানে আমি কবিতা পাঠ করেছি। ২৫ শে বৈশাখ পাড়াতে ঘটা করে রবীন্দ্র জয়ন্তী পালন করা হয়, সেখানে সময় পেরিয়ে যায়। দাদা-দিদিদের সঙ্গে গল্প করি, নিজেদের মধ্যে রবি ঠাকুরের নানা ধরনের গান গাওয়া হয়। খুব আনন্দে কাটে দিনটা। পাড়ার বাইরেও রবীন্দ্র জয়ন্তী অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করতে ভালো লাগে।
অদিতি মুখোপাধ্যায়, সপ্তম শ্রেণি
ঘুম ভাঙে রবীন্দ্র সংগীত শুনতে শুনতে
২৫ শে বৈশাখ দিনটার অপরিসীম গুরুত্ব। এদিন বাড়ির পরিবেশটাই কেমন বদলে যায়! সকালে ঘুম ভাঙে রবীন্দ্র সংগীত শুনতে শুনতে। দিনটা বেশ উপভোগ করি। সকাল থেকে টিভিতে কবিগুরুকে নিয়ে নানা অনুষ্ঠান হয় তা দেখি। রবি ঠাকুরের জন্মদিনে তাঁর লেখা কবিতা, গল্প, উপন্যাস পড়তে যেন একটু বেশিই ভালো লাগে। সারাদিন তাঁর লেখা পড়ি। পড়তে পড়তে মনে হয় তিনি না থাকলে বাংলা সাহিত্যটাই সম্পূর্ণ হত না। তাঁর লেখা পড়ে কত কিছু শিখতে পারি। তাঁর সৃষ্ট কবিতা, গল্প পড়েই তাঁকে জন্মদিনের শ্রদ্ধাঞ্জলি জানাই।
দেবাঞ্জন সিনহা,
সপ্তম শ্রেণি
ভোরে বৈতালিকে পা মেলাই
ছোট থেকে রবীন্দ্র সংস্কৃতিতে বেড়ে উঠেছি। তাই এদিনের গুরুত্ব নতুন করে আমাকে বোঝাতে হয়নি। সকালে শান্তিনিকেতনে চলে আসি। ভোরে শুরু হওয়া বৈতালিকে পা মেলাই। তারপরে ঘণ্টা তলার অনুষ্ঠানে যাই। উপাসনা গৃহে মন্ত্রপাঠে অংশ নিই। ২৫ শে বৈশাখের আগে থেকেই মনের মধ্যে উন্মাদনা সৃষ্টি হয়।
সায়র রায়, সপ্তম শ্রেণি
গাইতে গাইতে আশ্রম প্রাঙ্গণ পরিক্রমা করি
২৫ শে বৈশাখ সকাল থেকেই উৎসবমুখর পরিবেশ দেখা যায় শান্তিনিকেতন জুড়ে। ভোরে আলো ফোটার আগেই আমরা এখানে হাজির হয়ে যাই। দেশ-বিদেশের কত মানুষ আসেন সেদিন। আমরা বৈতালিকে গান গাইতে গাইতে আশ্রম প্রাঙ্গণ পরিক্রমা করি। এরপরে নানা সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান দেখি। কবিগুরুকে নিয়ে মানুষের আবেগ দেখে খুবই ভালো লাগে। সেদিন অনেক মানুষের সঙ্গে আলাপ হয়। কবিগুরুর নানা সৃষ্টি নিয়ে চর্চা হয় তা মন দিয়ে শুনি। এদিনটার জন্যই সারা বছর অপেক্ষায় থাকি।
অমরনাথ বাগদি,
অষ্টম শ্রেণি
২৫ শে বৈশাখের গুরুত্বই আলাদা
ছোট থেকেই পাঠভবনে পড়াশুনো করেছি। সারা বছরই রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরকে নিয়ে নানা অনুষ্ঠান করি। তাঁর লেখা গান, নৃত্যনাট্য, সাহিত্য চর্চা হয় স্কুলে। কিন্তু ২৫ শে বৈশাখ দিনটা বিশেষ গুরুত্বপূর্ণ। আমাদের স্কুলে আলাদা করে দিনটি উদ্‌যাপন না করা হলেও বিশ্বভারতীতে নানা অনুষ্ঠান হয়। সেখানেই আমরা অংশগ্রহণ করে থাকি। এদিন কবিগুরুর পা ছুঁয়ে প্রণাম করতে খুব ইচ্ছে হয়! তাই সকালে উঠেই স্নান করে তাঁর ছবিতে মালা দিয়ে সম্মান জানাই।
শ্রেয়া মণ্ডল,
নবম শ্রেণি
প্রতিবছরই নৃত্যনাট্য হয়
সামনের বছরই মাধ্যমিক, তাই পড়াশুনোর চাপ রয়েছে। তবু ২৫ শে বৈশাখ দিনটা আলাদাভাবেই কাটাব। প্রতি বছরের মতো এবারও বিশ্বভারতী চত্বরে হওয়া নানা অনুষ্ঠান দেখব। এদিন আমার সঙ্গে আমার পরিবারের লোকজনও আসেন। খুব মজা করি। এবারও তাদের নিয়ে যাব। ভোরে বৈতালিকে অংশ নেওয়ার পর ঘন্টা তলার অনুষ্ঠান দেখব। সন্ধ্যার সময়ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হয়। পাঠভবন থেকে প্রতিবছরই নৃত্যনাট্যের আয়োজন করা হয়। মাধ্যমিক পরীক্ষা রয়েছে বলে এবার কোনও অনুষ্ঠানে অংশ নেব না। তবে ২৫ শে বৈশাখ, মাধ্যমিকের সিলেবাসে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের যা যা সৃষ্টি রয়েছে তা পড়ে নেওয়ার চেষ্টা করব। এতে একদিকে যেমন মনের তৃপ্তি পাব, তেমনি পরীক্ষার প্রস্তুতিও হয়ে যাবে।
তামান্না ফিরদোষা, দশম শ্রেণি
বধিরূপা সিংহ, অধ্যক্ষ, পাঠভবন, বিশ্বভারতী 
১৯০১ সালে পাঁচজন ছাত্র ও পাঁচজন শিক্ষক নিয়ে কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ব্রহ্মচর্যাশ্রম শুরু করেন। সেই থেকে এর পথচলা শুরু। পরে ১৯২৫ সালে তিনি এর পাঠভবন নামকরণ করেন। সেই সময়ের ঔপনিবেশিক শিক্ষাব্যবস্থা থেকে সম্পূর্ণ পৃথকভাবে তপোবনের কাঠামোয় গড়ে তুলেছিলেন এই ব্যতিক্রমী প্রতিষ্ঠানটিকে। কবিগুরু পরীক্ষার তীব্র বিরোধী ছিলেন। তিনি পরীক্ষাকে রক্তপিপাসু দানব বলতেন। তাঁর সেই আদর্শকে সামনে রেখে এখনও অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত কোন বাৎসরিক পরীক্ষা হয় না। তাঁর পরিবর্তে সারা বছরের দৈনন্দিন কাজের ভিত্তিতে মূল্যায়ণ করা হয়। সেখানে যেমন ছাত্র-ছাত্রীর পড়াশুনোর অগ্রগতিটিও লক্ষ করা হয়, ঠিক সমান গুরুত্ব নিয়ে নাচ, গান, সাহিত্য চর্চাকেও মূল্যায়ণ করা হয়।
কবিগুরুর তৈরি এই প্রতিষ্ঠান অনেক দিক থেকেই মৌলিক। যেমন এই প্রতিষ্ঠানের মতো কোনও বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে স্কুল খুব বেশি দেখা যায় না। তেমনি পাঠভবনই বিশ্বের একমাত্র বিদ্যালয় যা থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সৃষ্টি হয়েছে। কারণ, প্রথমে পাঠভবন হয় পরে ছাত্র-ছাত্রীদের উচ্চশিক্ষার কথা মাথায় রেখে রবীন্দ্রনাথ বিশ্বভারতীর প্রতিষ্ঠা করেন। তাঁর এই প্রতিষ্ঠানে বর্তমানে ১২০০ ছাত্র-ছাত্রী পড়াশুনো করে। তাদের মধ্যে ৪০০ জন আবাসিক।
সাতটি হোস্টেল রয়েছে। সংগীত, খেলাধুলো, নাচ সহ সমস্ত বিভাগ মিলিয়ে শিক্ষক-শিক্ষিকার সংখ্যা ৭০। নাচ-গান, শরীরচর্চা, চিত্রাঙ্কন, হাতের কাজ এখানকার দৈনন্দিন পাঠ্যক্রমেরই অঙ্গ। ছাত্র-ছাত্রীদের যেমন হাতের কাজ, মাটির কাজ শেখানো হয়,
তেমনি মেটাল ওয়ার্ক ও তাঁতের কাজও শেখানো
হয়। কোনও ছাত্র-ছাত্রীর মধ্যে বিশেষ প্রতিভা লক্ষ করা গেলে তার ওপর বিশেষ নজর দেওয়া হয়। খেলাধুলোতেও এখানকার ছাত্র-ছাত্রীরা জেলার
নাম উজ্জ্বল করে। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরকে নিয়ে সারাবছরই নানা অনুষ্ঠান করা হয়। কিন্তু ২৫ শে
বৈশাখে আলাদা করে কোনও অনুষ্ঠান হয় না। বিশ্বভারতীর অনুষ্ঠানেই ছাত্র-ছাত্রী, শিক্ষক-শিক্ষিকারা অংশগ্রহণ করেন। প্রতি মঙ্গলবার ছাত্র-ছাত্রীদের লেখা নিয়ে সাহিত্যসভার আসর বসে।
সংকলক: সুমন তেওয়ারি
ছবি সংশ্লিষ্ট সংস্থার সৌজন্যে
07th  May, 2017
 রেনি ডে মানে দেদার মজা

 স্কুলের পথে ঝুপ ঝুপ বৃষ্টি। আকাশ কালো শ্রাবণ ধারায় মনে অফুরন্ত ফুর্তি। রেনি ডে মানে খিচুড়ি খাওয়া, কাগজের নৌকা ভাসানো, মাছ ধরা আরও কত কী। এবারের সংখ্যায় রেনি ডে নিয়ে তোমাদের বেশকিছু মজাদার গল্প শোনালো সংস্কৃত কলেজিয়েট স্কুলের ছাত্ররা।
বিশদ

দুই দেশের এক দ্বীপ

তোমরা আজ দু’টি দেশের একটি দ্বীপের মজার ঘটনা সম্পর্কে জানবে। বছরে ছয় মাস থাকে ফ্রান্সের দখলে। আর বাকি ছয় মাস থাকে স্পেনের নিয়ন্ত্রণে। ফ্রান্স ও স্পেন সীমান্তের মধ্যে একটি নদী আছে। নাম বিদাসোয়া। সেখানেই দেখতে পাওয়া যায় দ্বীপটিকে। দু’দেশের লড়াইয়ে দ্বীপটি যেন একটি পিং পং বলে পরিণত হয়েছে। কখনও এর সীমানায় তো, কখনও ওর সীমানায়। এমন একটি রহস্যঘেরা দ্বীপের নাম ফেজেন্ট।
বিশদ

16th  July, 2017
সত্যিকারের হারানো পৃথিবী

যে পাহাড় নিয়ে লেখা হয় বিখ্যাত এক উপন্যাস আর তৈরি হয় দু-দুটি হলিউডি সিনেমা, সেই পাহাড় কি আর বিখ্যাত না হয়ে উপায় আছে? দক্ষিণ আমেরিকার বিখ্যাত এই পাহাড়ের অবস্থান ভেনিজুয়েলা-ব্রাজিল সীমান্তে। ১৯১২ সালে ‘দ্য লস্ট ওয়ার্ল্ড’ উপন্যাসে ‘রোরাইমা’ নামের এই পাহাড়ের বর্ণনা দিয়েছিলেন স্যার আর্থার কোনান ডয়েল।
বিশদ

16th  July, 2017
কার্ডের সাহায্যে অনায়াসে বড় বড় অঙ্কের সমাধান করে ফেলছে ছোটরা

পরামর্শ দিচ্ছেন ইউসিমাস, কলকাতার প্রধান নবনীতা ভৌমিক। বিশদ

16th  July, 2017
ইন্দাস ভ্যালি স্কুল পুরস্কৃত

ব্রিটিশ কাউন্সিল প্রতি বছর তোমাদের মতো স্কুল পড়ুয়াদের নিয়ে ‘ইন্টারন্যাশনাল স্কুল অ্যাওয়ার্ড’ নামে একটি অনুষ্ঠান করে। এখানে বিভিন্ন দেশের ছাত্র-ছাত্রীরা অংশ নেয়। এ বছর ভারত থেকে এই পরস্কার পেয়েছে কলকাতার ইন্দাস ভ্যালি ওয়ার্ল্ড স্কুল। এদের কাছে ২০১৭ সাল থেকে ২০২০ সাল পর্যন্ত পুরস্কারটি থাকবে।
বিশদ

16th  July, 2017
স্কুলের সেরা মুহূর্ত

শিক্ষকদের আশীর্বাদ ও ভালোবাসা
আমার এবার দশম শ্রেণি। আস্তে আস্তে পা বাড়াচ্ছি সামনের দিকে। আর বছর তিনেক পর ছাড়তে হবে স্কটিশ চার্চকে। কিন্তু আমার জীবনে স্কুল ঘিরে রয়েছে কত রঙিন মুহূর্ত। অজস্র স্মৃতি। কত ভালো লাগা।
বিশদ

16th  July, 2017
মাধ্যমিকে বঙ্গানুবাদের প্রস্তুতি নিয়ে কিছু জরুরি টিপস

পরামর্শ দিচ্ছেন হোলি চাইল্ড স্কুলের (বিডন স্ট্রিট) বাংলার শিক্ষিকা হাসি সাহা
বিশদ

09th  July, 2017
টাটা ট্রাস্টের দ্য বিগ লিটল বুক অ্যাওয়ার্ড

তোমাদের একটা ভালো সংবাদ দিই। ভারতীয় ভাষায় শিশু সাহিত্যে লেখকদের ও পুস্তক অলংকরণে অবদানের জন্য বিশেষ সম্মান জানাতে ‘দ্য বিগ লিটল বুক অ্যাওয়ার্ড’
(বি এল বি এ) www.tatatrusts.org, ফেসবুক: Tata Trusts দেখতে পারো।
বিশদ

09th  July, 2017
স্কটিশ চার্চ কলেজিয়েট স্কুলের বার্ষিক অনুষ্ঠান

স্কটিশ চার্চ কলেজিয়েট স্কুলের বার্ষিক পুরস্কারবিরতণী অনুষ্ঠান হয়ে গেল। গত ১২ জুন সোমবার বিকেল পঁাচটায় মোহিত মৈত্র মঞ্চে অনুষ্ঠানটির আয়োজন করা হয়েছিল। এই অনুষ্ঠানে পুরস্কার বিতরণের পাশাপাশি ছাত্ররা বিভিন্ন সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে অংশ নেয়।
বিশদ

09th  July, 2017
যুগান্তকারী আবিষ্কার

সকালে ঘুম থেকে উঠেই তোমাদের কেউ হয়তো প্রথমে চশমাটা পড়ে নাও, এরপর রেডিও বা টেলিভিশন চালু করো এবং নিউজপেপারটা হাতে
নিয়েই পড়া শুরু করো। এর মাঝেই কিন্তু তুমি গত ১০০০ বছরের ইতিহাসের তিনটি যুগান্তকারী আবিষ্কারকে ব্যবহার করে ফেলেছ: চশমার লেন্স, তারহীন যোগাযোগ এবং প্রিন্টিং প্রেস।
বিশদ

09th  July, 2017
ডাকবাড়িতে ইতিহাসের ডাক

একসময় রাত জেগে ছুটত রানার চিঠির বোঝা কাঁধে। কত অতীত পেরিয়ে এখন ডাকব্যবস্থা পেয়েছে আধুনিকতার ছোঁয়া। সেইসব দিনের স্মৃতিকে, ইতিহাসকে আমাদের কাছে তুলে ধরেছে ভারতীয় ডাক ব্যবস্থা। কলকাতার জিপিওতে গড়ে ওঠা সংগ্রহশালায় মিলছে সেইসব ইতিহাসের দর্শন। দেখে এলেন রাজীব চক্রবর্তী। বিশদ

09th  July, 2017



একনজরে
 নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: ইষ্টার্ন কোলফিল্ডের সালানপুর এলাকায় থাকা কর্মী আবাসন থেকে কলকাতা হাইকোর্টের নির্দেশ অনুসারে অন্তত ১০০ বেআইনি দখলদারকে উচ্ছেদ করা হয়েছে। বস্তুত, এই রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার বহু আবাসনেই তারপরেও প্রচুর বেআইনি দখলদার রয়েছে বলে অভিযোগ রয়েছে। ...

 সংবাদদাতা, ঘাটাল: দুই দেশের খেলা দেখার জন্য ভিড় উপচে পড়ল দাসপুর-১ ব্লকের কলোড়াতে। শনিবার পশ্চিম মেদিনীপুর ফুটি অ্যাসোসিয়েশনের উদ্যোগে কলোড়া স্কুল ফুটবল মাঠে ভারতের জাতীয় ...

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: ২১ জুলাই শহিদ দিবসের সমাবেশে তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের করা মন্তব্য নিয়ে ওঠা বিতর্কের ঝড় রাজ্যের গণ্ডি পেরিয়ে এবার জাতীয় স্তরে উঠে এল। নরেন্দ্র মোদির ব্যর্থতা তথা বিজেপি শাসিত রাজ্যগুলির অপশাসন নিয়ে শুক্রবার ধর্মতলার ঐতিহাসিক সমাবেশমঞ্চ থেকে ...

 নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: বহরমপুর সেন্ট্রাল জেল থেকে চিকিৎসার জন্য কলকাতায় নিয়ে আসা বিচারাধীন বন্দি উধাও হল হাসপাতাল থেকে। পলাতক ওই বন্দির নাম সোহেল রানা (২৫)। ...


আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

ব্যাবসা সূত্রে উপার্জন বৃদ্ধি। বিদ্যায় মানসিক চঞ্চলতা বাধার কারণ হতে পারে। গুরুজনদের শরীর স্বাস্থ্য নিয়ে ... বিশদ



ইতিহাসে আজকের দিন

 ১৮৫৬- স্বাধীনতা সংগ্রামী বাল গঙ্গাধর তিলকের জন্ম
 ১৮৯৫ – চিত্রশিল্পী মুকুল দের জন্ম
 ২০০৪- অভিনেতা মেহমুদের মৃত্যু
 ২০১২- আই এন এ’ যোদ্ধা লক্ষ্মী সায়গলের মৃত্যু



ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৬৩.৫৫ টাকা ৬৬.২৩ টাকা
পাউন্ড ৮১.৯৮ টাকা ৮৪.৯৬ টাকা
ইউরো ৭৩.৫৬ টাকা ৭৬.১৬ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
22nd  July, 2017
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ২৯,০৭০ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ২৭,৫৮০ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ২৭,৯৯৫ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৩৮,৫০০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৩৮,৬০০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]

দিন পঞ্জিকা

 ৭ শ্রাবণ, ২৩ জুলাই, রবিবার, অমাবস্যা দিবা ৩/১৬, পুনর্বসুনক্ষত্র দিবা ৯/৫৩, সূ উ ৫/৭/৫৭, অ ৬/১৮/৫, অমৃতযোগ প্রাতঃ ৬/১-৯/৩১ রাত্রি ৭/৪৫-৯/১১, বারবেলা ১০/৪-১/২২, কালরাত্রি ১/৪-২/২৬।
৬ শ্রাবণ, ২৩ জুলাই, রবিবার, অমাবস্যা ৩/৫২/৫৯, পুনর্বসুনক্ষত্র ১১/৫/৩৬, সূ উ ৫/৪/৫০, অ ৬/২০/৬, অমৃতযোগ দিবা ৫/৫৭/৫১-৯/২৯/৫৫, বারবেলা ১০/৩/৩-১১/৪২/২৮, কালবেলা ১১/৪২/২৮-১/২১/৫২, কালরাত্রি ১/৩/৪-২/২৩/৩৯।
 ২৮ শওয়াল

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
ভারতের জয়ের জন্য ২ ওভারে ১১ রান প্রয়োজন 

10:06:00 PM

ভারতের জয়ের জন্য ৬ ওভারে ৩১ রান প্রয়োজন 

09:47:31 PM

ভারত ১৪৫/৩ (৩৫ ওভার) 

09:08:03 PM

ভারত ১২০/২ (৩০ ওভার) 

08:45:54 PM

ভারত ৬৯/২ (২০ ওভারে)

08:10:29 PM

ভারত ৪৩/২ (১২ ওভারে)

07:41:49 PM