গল্পের পাতা
 

জ্বলন্ত চিতায় তারামাকে দর্শন করলেন তারানাথ  

পর্ব-১৬
অপূর্ব চট্টোপাধ্যায়:  মাসটা কার্তিক। বেশ ঠাণ্ডাও পড়েছে। প্রায় বাহাত্তর ঘন্টা ট্রেন- সফর করে বীরভূমের মল্লারপুর স্টেশনে এসে নামলেন ব্রহ্মচারী প্রমথেশ। রামপুরহাটের আগের স্টেশনটিই মল্লারপুর। সেখান থেকে তারাপীঠ-চণ্ডীপুরের দূরত্ব প্রায় পাঁচ মাইল। প্রমথেশ সাত্ত্বিক ব্রাহ্মণ তায় হঠযোগী। তাই যত্রতত্র আহারে তাঁর বড়ই অনীহা। ফলে তিনদিন তিনি জল ভিন্ন আর কিছুই গ্রহণ করেননি। এখন বড় ক্লান্ত মনে হচ্ছে নিজেকে। তবু সময় নষ্ট করলেন না প্রমথেশ। স্টেশনে বসে না থেকে তিনি নেমে এলেন পথে। শুরু হল পথচলা। পায়ে হেঁটে তিনি এসে পৌঁছলেন ভাবী গুরু বামদেবের বড়মায়ের সাম্রাজ্যে।
এদিকে শিমূলতলায় বসে শিষ্যের আগমন বার্তা অনেক আগেই জানতে পেরেছিলেন তারাপীঠের সচল ভৈরব, স্বয়ং মহাদেব বামদেব। ভক্ত ও পাণ্ডাদের ডেকে তিনি হাসতে হাসতে বলেছিলেন, ‘ দাদা আজকেই আসছেন।’
প্রমথেশ এলেন। প্রবেশ করলেন মন্দিরে। তারামা কে প্রাণভরে দর্শন করে প্রণাম করলেন। এইসময় তাঁর সঙ্গে দেখা হল জনৈক কালীপাণ্ডার। তারপর কী ঘটল সেই প্রসঙ্গে যাওয়ার আগে ব্রহ্মচারী প্রমথেশ সম্পর্কে দু-চার কথা বলা অবশ্যই প্রয়োজন। সদ্য তিনি হিমালয় থেকে নেমে এসেছেন সমতলে। দৈববাণী ‘ বামা বীরভূম’ তাঁর মনকে বড়ই উতলা করে তুলেছে। তখনকার প্রমথেশকে নিয়ে ডাক্তার অভয়পদ চট্টোপাধ্যায় তাঁর
‘সিদ্ধসাধক তারাক্ষ্যাপা’ গ্রন্থের এক জায়গায় লিখছেন, ‘ তরুণ যোগী তারানাথের এখন পূর্ণযৌবন. দীর্ঘকাল হিমালয়ের জলবায়ুতে শরীর সুদৃঢ়, সবল ও পরিপুষ্ট। সুবিস্তারিত বক্ষস্থল, আজানুলম্বিত বাহু, চক্ষুতে অপূর্বজ্যোতি, হাতে পরশু (কুঠার) ও দীর্ঘ যষ্ঠি, পায়ে পার্ব্বত্য পদত্রাণ, পরিধানে রেশমী বস্ত্র, গায়ে রেশমী পিরাণ, কাঁধে নিজের ব্যবহারের দ্রব্যসম্ভার।’
পরশু হস্তে পরশুরাম রূপী প্রমথেশকে দেখে কালীপাণ্ডা প্রথমে বেশ ভয় পেয়েছিলেন। কিন্তু বামদেবের নাম শোনার পর তাঁর সেই ভয় কেটে গেল। তিনিই প্রমথেশকে পৌঁছে দিলেন তাঁদের বাবার কাছে। অবশেষে দেখা হল গুরু বামদেবের সঙ্গে শিষ্য প্রমথেশ বা ভাবীকালের তারানাথ কিংবা তারা খ্যাপার।
ডাক্তার চট্টোপাধ্যায় তাঁর বইতে এই ক্ষণটির সুন্দর এক চিত্র এঁকে রেখেছেন আমাদের জন্য— তারানাথ গুরুর পদপ্রান্তে উপনীত হওয়া মাত্র বামদেব বললেন, দাদা এসেছেন? আমি কতই ভাবছিলাম।
বীরাচারী সাধক তারানাথ এরপর গুরুকে জিজ্ঞাসা করলেন, কেন ডাকলেন আমায়?
তাঁর থেকে প্রায় নবছরের ছোট শিষ্যকে বামদেব উত্তরে বলেছিলেন— আপনার জন্ম ভ্রাতৃদ্বিতীয়াতে। কাল কিংবা তার পরেরদিন নয়, আপনার সঙ্গে আমার বোঝাপড়া হবে তারও পরের দিন।
চমকে উঠলেন প্রমথেশ। সেই মুহূর্তে তাঁর গুরু যে সত্যিই অন্তর্যামী তা তিনি উপলব্ধি করতে পারলেন। তারানাথের জন্ম ১২৫৩ সালের (ইংরেজি ১৮৪৬ খ্রিষ্টাব্দ), ৮ কার্তিক, শুক্রবার শেষরাতে, শুক্লা দ্বিতীয়া তিথিতে।
শিষ্যকে চিন্তান্বিত দেখে বামদেব এরপর স্নেহঝরা কন্ঠে বলেছিলেন, আপনি ক’দিন কিছু খাননি, একটু ছোলা সিদ্ধ ও মুড়ি খান। গুরুর নির্দেশে তিনি ছোলা সিদ্ধ ও মুড়ি দিয়ে উপবাস ভঙ্গ করলেন। বামদেব মৃদু হেসে শিষ্যকে বললেন, আজ রাতে অনেক কিছু হবে। তৈরি থাকবেন।
তারাপীঠে কয়েকজন ভৈরব ও ভৈরবী সেদিন এসেছিলেন। কৃষ্ণা চর্তুদশীর রাত। তাঁদের অনুরোধে বামদেব রাজি হলেন চক্রানুষ্ঠানে চক্রেশ্বরের পদ গ্রহণ করতে। শিমূলতলার সেই অনুষ্ঠানে গুরুর সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন তারানাথও। এই প্রথম তিনি তন্ত্রাচার দেখলেন। অনুষ্ঠান শেষে অন্য সাধক-সাধিকারা যখন বিশ্রাম নিতে গেলেন সেইসময় বামদেব তাঁর ভাবী শিষ্যকে নিয়ে প্রবেশ করলেন মহাশ্মশানের আরও গভীর প্রান্তে।
তাঁরা শবভূমিতে প্রবেশ করা মাত্র হঠাৎই একটা চিতা জ্বলে উঠল। আর সেই প্রজ্জ্বলিত চিতার মধ্যে তারানাথ দর্শন করলেন মা তারাকে। আর তখনিই একযোগে শত শত হাতির বৃংহণধ্বনিতে মুখরিত হয়ে উঠল শ্মশান। বিন্দুমাত্র ভয় পেলেন না তারানাথ। তিনি গুরুকে জিজ্ঞাসা করলেন, কর্তা, এসব কি আপনার খেলা, ঐশ্বর্য?
বামদেব উত্তরে বললেন, এত তারামায়ের রাজ্য, এসব মায়ের ঐশ্বর্য।
পরদিন সূর্যগ্রহণ এবং অমাবস্যা। হঠযোগী প্রমথেশ ঠিক করলেন, এইরকম দিনে কোনও রকম খাদ্য গ্রহণ করবেন না,সারাদিন জপতপ করেই কাটাবেন। কিন্তু তাঁর মনোবাসনা পূর্ণ হতে দিলেন না গুরু বামদেব। তিনি শিষ্যকে দিয়ে মাংস ও পরমান্ন রান্না করিয়ে নি‌জে গ্রহণ করলেন এবং তারানাথকে বাধ্য করলেন সেই প্রসাদ খেতে।
ভাবী গুরুর আদেশ অমান্য করতে পারেন নি প্রমথেশ। গুরুর প্রসাদ খেয়ে বলেছিলেন, কর্তা সবই আপনার বিপরীত!
উত্তরে বামদেব বলেছিলেন, এ যে শিমূলতলা, তারা মা যে বামা।
এই উত্তর শুনে তারানাথ বুঝতে পারলেন, তাঁর গুরু স্বয়ং মহেশ্বর, অবধূত।
সব কিছু বোঝার পরও তারানাথ বামদেবের কাছে জানতে চেয়েছিলেন, পিশাচে পেলে সত্যবর্জিত হয়?
গুরু মৃদু হেসে মায়ের হাতের খড়্গটি দেখিয়ে বলেছিলেন, ইনিই গুরু, দেব-দানব-যক্ষ- গন্ধর্ব সকলেই এর উপাসক। এতেই রয়েছে ব্রহ্মদণ্ড, আবার এটা দিয়েই পিশাচমোচন হয়। এই খড়্গ মহেশ্বরের প্রাণ, রোহিণী এর উৎপত্তি স্থান, রুদ্রদেব তাঁর গুরু।
মুগ্ধ তারানাথ গুরুর কথা শেষ হওয়া মাত্রই তাঁর চরণে লুটিয়ে পড়লেন। এদিকে রাতের মেয়াদ প্রায় ফুরিয়ে এসেছে। অন্ধকার ক্রমশ পাতলা হচ্ছে। গুরু বামদেব শিষ্যের পিঠে হাত রেখে বললেন, শুরু হল আপনার পথ চলা। নির্ভীক তারানাথ আবার গুরুর চরণ স্পর্শ করে উঠে দাঁড়ালেন। আর ঠিক তখনিই নতুন দিনের নতুন সূর্য উঁকি দিল পূব আকাশে।
অলংকরণ: স. প.
07th  May, 2017
বুঝিবে ফাজিল অঙ্ক শুভঙ্কর ভনে 

আমরা একটি সিরিজ শুরু করছি— ‘কিংবদন্তির নায়ক-নায়িকা’। আমরা কথা প্রসঙ্গে এমন সব পুরুষ মহিলার নাম কথা প্রসঙ্গে নিয়ে থাকি, যাঁরা খুব যেন পরিচিত, কিন্তু তাঁদের সম্পর্কে এমন কিছুই জানি না। তাঁদের ঘিরে নানান গল্পগুজব গড়ে উঠেছে। বিশদ

28th  May, 2017
বাংলা নাটক 

স্বপ্নময় চক্রবর্তী:  কলকাতায় একটা যাত্রাপাড়া আছে, ওখানে বিভিন্ন যাত্রা কোম্পানিগুলির অফিস, ওখান থেকেই বুকিং হয়। রিহার্সাল কোথায় হয় জানি না। রবীন্দ্র সরণির নতুন বাজার থেকে আহেরিটোলার মোড় পর্যন্ত ৩০০-৩৫০ মিটার দূরত্বের মধ্যে এখনও কমপক্ষে ৩০-৩৫টি যাত্রাদলের গদি রয়েছে।
বিশদ

28th  May, 2017
মারুবেহাগ
 

ভাস্কর গুপ্ত:   ১  সাড়ে সাতটা বেজেছে। টিভি’টা বন্ধ করে বারান্দায় এসে দাঁড়ায় সুনীপা। তিনতলার এই দু’কামরার ছোট্ট ফ্ল্যাটের বারান্দাটাও সেই মাপে। তবুও এই বারান্দাটা খুব পছন্দের সুনীপার।
বিশদ

28th  May, 2017
গুরুর নির্দেশে শবসাধনায় বসলেন তারানাথ 

অপূর্ব চট্টোপাধ্যায়:  হাতে আর খুব বেশি সময় নেই। আর মাত্র কয়েক ঘন্টা। তারপরই শুরু হবে এক নতুন জীবন। তারাপীঠে আসার পর থেকে তারানাথও খুব প্রয়োজন ছাড়া গুরুর কাছ ছাড়া হচ্ছেন না এবং বামদেবও চাইছেন শিষ্য তাঁর আশেপাশেই থাকুন।
বিশদ

21st  May, 2017
ভা লো মা নু ষ - ম ন্দ মা নু ষ 
সাতক্ষীরের দীপ্তিময় মল্লিক

 অমর মিত্র: দীপ্তিময়, দীপ্তি মল্লিকের বয়স ৭৫-এর মতো। তিনি পিতৃপুরুষের ভিটে ছাড়েননি। দীপ্তি মল্লিকের সঙ্গে আমার দেখা বাংলাদেশের সাতক্ষীরেয় আমার পিতৃপুরুষের ফেলে আসা ভিটে দেখতে গিয়ে। তিনি শিক্ষক ছিলেন। একটি কন্যা এবং এক পুত্র।
বিশদ

21st  May, 2017
সন্ধ্যাতারা 

পাপিয়া ভট্টাচার্য:  সেন্ট্রালের সামনে ওকে নামিয়ে দিয়ানা বলল, ‘সরি বনি, আমি আর ওয়েট করব না। তুমি ঠিকঠাক চলে যেও। ফোন করব। সরি এগেইন।’
গ্যাসচালিত ধোঁয়াহীন বাইকটা ঝড়ের বেগে বেরিয়ে যাবার পর খেয়াল হল তার, ইস, আবারও সেই একই ভুল।
বিশদ

21st  May, 2017
তিথির সঙ্গে কিছুক্ষণ 

আশিস ঘোষ:  ঠিক সন্ধের শুরুতে তিথি এল। কখন থেকে দাঁড়িয়ে আছি। কত বাস, মিনিবাস, ট্যাক্সি দাঁড়াল। লোকজন ওঠানামা করল। তিথি আর আসে না। ক্লান্ত বিরক্ত হয়ে চলে যাব কিনা ভাবছি, এমন সময় তিথি এল। ঠিক সন্ধের শুরুতে। বিশদ

14th  May, 2017
গানের ভিতর দিয়ে 

স্বপ্নময় চক্রবর্তী:  বাঙালির মনন বাংলা গানকে বলেছে তুমি নব নব রূপে এসো প্রাণে। বাংলা গান এসেছে নবনব রূপে। কিন্তু কানে এসেছে প্রাণে নয়। সেই কবিওয়ালাদের গান থেকে রামপ্রসাদ-নিধুবাবু হয়ে সলিল চৌধুরি হয়ে আজকের ব্যান্ডের গান পর্যন্ত নব নব রূপেই এসেছে।
বিশদ

14th  May, 2017
ইতিহাসের আলোছায়ায় 
টোডার মল

বৈদ্যনাথ মুখোপাধ্যায়: টোডার মল ছিলেন আকবর বাদশার প্রথম রেভিনিউ মিনিস্টার এবং দক্ষ ভূমি ও ভূমিরাজস্ব ব্যবস্থার যথার্থ রূপকার। তাঁর জন্ম হয়েছিল লাহোরে। অতি সাধারণ পরিবারে জন্ম। বাদশার কাজে তিনি যোগ দেন পূর্ব অভিজ্ঞতা ছাড়া। বিশদ

14th  May, 2017
ভা লো মা নু ষ - ম ন্দ মা নু ষ
ভা গ্যা ন্বে ষী মা নু ষ

পর্ব-১৮
অমর মিত্র:  বাংলা সন ১৩৪৮, ইংরিজি ১৯৪১, দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ চলছে। যুদ্ধের বাজারের মন্দা শুরু হয়ে গেছে। কেউ কেউ লাখপতি হচ্ছে, কেউ নিঃস্ব। অনেকগুলি পুত্র কন্যা নিয়ে তিনি গঙ্গার পশ্চিমকুলে হাওড়া জেলার সালকিয়ায় পৈতৃক বাড়িতে মুখ গুঁজে থাকতেন।
বিশদ

07th  May, 2017



একনজরে
সিওল, ২৯ মে: তিন সপ্তাহের মধ্যে ফের ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা চালালো উত্তর কোরিয়া। জাপানের দাবি, ক্ষেপণাস্ত্রটি তাদের অর্থনৈতিক অঞ্চলে আছড়ে পড়েছে। স্কাড মিসাইলটি ৪৫০ কিলোমিটার আকাশপথ ...

 নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: পাহাড় জয়ের স্বপ্নে এবার হাত মেলাল দুই বাংলা। কলকাতার পর্বতারোহী সত্যরূপ সিদ্ধান্ত এবং বাংলাদেশের মুসা ইব্রাহিম একযোগে অভিযান শুরু করলেন ওশিয়ানিয়া মহাদেশের সর্বোচ্চ পর্বতশৃঙ্গ কারস্টেইনৎস পিরামিড ওরফে পুনসাক জয়া-র উদ্দেশ্যে। ...

নয়াদিল্লি, ২৯ মে (পিটিআই): সাংবাদিক রাজদেও রঞ্জন হত্যা মামলায় আরজেডি নেতা সাহাবুদ্দিনকে হেপাজতে নিল সিবিআই। কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার সূত্রে জানানো হয়েছে, জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সাহাবুদ্দিনকে এজেন্সির ...

সংবাদদাতা, শিলিগুড়ি: শিলিগুড়িতে এবছর মাধ্যমিক পরীক্ষায় ৭৫ শতাংশের বেশি নম্বর পাওয়া ছাত্রছাত্রীদের সংখ্যা অন্য বছরগুলির তুলনায় অনেকটাই বেশি বলে মধ্যশিক্ষা পর্ষদের উত্তরবঙ্গ আঞ্চলিক কার্যলয় সূত্রে জানা গিয়েছে। ...


আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

ব্যাবসাসূত্রে উপার্জন বৃদ্ধি। বিদ্যায় মানসিক চঞ্চলতা বাধার কারণ হতে পারে। গুরুজনদের শরীর স্বাস্থ্য ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৭৪৪: ইংরেজ লেখক আলেক্সজান্ডার পোপের মৃত্যু
১৭৭৮: ফ্রান্সের লেখক এবং দার্শনিক ভলতেয়ারের মৃত্যু
১৯১২: বিমান আবিষ্কারক উইলবার রাইটের মৃত্যু
১৯১৯: জালিয়ানওয়ালাবাগ হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ‘নাইট’ উপাধি ত্যাগ
১৯৪৫: অভিনেতা ধৃতিমান চট্টোপাধ্যায়ের জন্ম
১৯৫০: অভিনেতা পরেশ রাওয়ালের জন্ম
২০১৩: চিত্র পরিচালক ঋতুপর্ণ ঘোষের মৃত্যু




ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৬৩.৭০ টাকা ৬৫.৩৮ টাকা
পাউন্ড ৮১.৩৮ টাকা ৮৪.১৮ টাকা
ইউরো ৭০.৮৭ টাকা ৭৩.২৩ টাকা
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ২৯,৩৪৫ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ২৭,৮৪০ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ২৮,২৬০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৪০,৩০০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৪০,৪০০ টাকা

দিন পঞ্জিকা

 ১৬ জ্যৈষ্ঠ, ৩০ মে, মঙ্গলবার, পঞ্চমী দিবা ৮/৪৭, পুষ্যানক্ষত্র দিবা ১১/৫৭, সূ উ ৪/৫৫/৪৯, অ ৬/১২/১৩, অমৃতযোগ দিবা ৭/৩৪ পুনঃ ৯/২১-১২/০ পুনঃ ৩/৩১-৪/২৫, বারবেলা ৬/৩৬-৮/১৫ পুনঃ ১/১৩-২/৫৩, কালরাত্রি ৭/৩২-৮/৫৩।
১৫ জ্যৈষ্ঠ, ৩০ মে, মঙ্গলবার, পঞ্চমী ২/১৯/৫, পুষ্যানক্ষত্র অপরাহ্ণ ৫/২৮/৪৩, সূ উ ৪/৫৪/৪৫, অ ৬/১২/৩৬, অমৃতযোগ দিবা ৭/৩৪/১৯, ৯/২০/৪২-১২/০/১৬, ৩/৩৩/২-৪/২৬/১৩ রাত্রি ৬/৫৫/২৫, ১১/৫৫/৫-২/৩/৩১, বারবেলা ৬/৩৪/২৯-৮/১৪/১৩, কালবেলা ১/১৩/২৪-২/৫৩/৮, কালরাত্রি ৭/৩২/৫২-৮/৫৩/৮।
৩ রমজান

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
উচ্চ মাধ্যমিকে তৃতীয় (৯৭.৮%) শুভম সিংহ ও সুরজিৎ লোহার (বাঁকুড়া জেলা স্কুল) 

10:45:00 AM

উচ্চ মাধ্যমিকে প্রথম অর্চিষ্মাণ পানিগ্রাহি ( হুগলি কলেজিয়েট স্কুল) 

10:45:00 AM

উচ্চ মাধ্যমিকে দ্বিতীয় (৯৮.৪%) ময়াঙ্ক চট্টোপাধ্যায় (মাহেশ শ্রীরামকৃষ্ণ বিদ্যাভবন), উপমন্যু চক্রবর্তী (নরেন্দ্রপুর রামকৃষ্ণ মিশন) 

10:39:06 AM

সাফল্যের নিরিখে শীর্ষে পূর্ব মেদিনীপুর 

10:15:00 AM

সংসদের ওয়েবসাইটে এবার জেলাওয়াড়ি সেরাদের নাম ও স্কুলের নাম প্রকাশিত হবে 

10:13:00 AM

উচ্চ মাধ্যমিকে পাশের হার ৮৪.২০% 

10:11:00 AM






বিশেষ নিবন্ধ
এবারই প্রথম নয়, ’৯৯-এ কারগিল যুদ্ধেও পাক সেনারা নৃশংসতার নজির রেখেছিল
সীমান্তরক্ষায় অনেকদিন কাটানো পোড়খাওয়া এক ক্যাপ্টেন একদিন দার্শনিকের ঢঙে বললেন, আমরা এটুকুই বুঝি—যুদ্ধক্ষেত্রে জীবন মানে ...
 লালবাজার অভিযান: মমতার চালে বিজেপি মাত!
শুভা দত্ত: সিপিএমের নবান্ন অভিযানের ধাঁচে লালবাজার অভিযান করে রাজ্যবাসীকে চমকে দিতে চেয়েছিল রাজ্য বিজেপি। ...
 হুট বলতে ফুট কাটার অসুখ
 সৌম্য বন্দ্যোপাধ্যায়: আমার এক বন্ধু প্রায়ই ভারী অদ্ভুত অদ্ভুত কথা বলে। যেমন, জ্বর-জ্বালা, বুক ধড়ফড়ানি, ...
নদী তুমি কার
বিশ্বজিৎ মুখোপাধ্যায়: ১৯৪৭ সালে দ্বিখণ্ডিত স্বাধীনতা কেবলমাত্র মানুষকে ভাগ করেনি, প্রাকৃতিক সম্পদেও ভাঙনের সাতকাহন সূচিত ...
চীন, পাকিস্তান বেজিংয়ে ফাঁকা মাঠ পেয়ে গেল ভারতের কূটনৈতিক ভুলের কারণে
কুমারেশ চক্রবর্তী: মাত্র কিছু দিন আগে বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ামক সংস্থা আইসিসি’র এক ভোটে ৯-১ ভোটে ...