সম্পাদকীয়
 

খাদ্য ফরমান

প্রফুল্ল সেনের জমানায় বিয়ের কার্ডের নীচে লিখতে হত, ‘পশ্চিমবঙ্গ সরকারের অতিথি নিয়ন্ত্রণ বিধি প্রযোজ্য’। অর্থাৎ, যত খুশি লোক এই বিয়েবাড়িতে নিমন্ত্রিত নয়, যেমন খুশি মেনুও নেই এবং অবশ্যই খাবারের অপচয় হবে না। সে ছিল খাদ্য সংকটের পরবর্তী সময়। খাদ্যাভাব এবং আন্দোলনের তিক্ততার বিষ গলায় ধারণ করেই সবে তখন একটু থিতু হয়েছে সোনার বাংলা। তাও কাটেনি হাহাকার। এমন সময়ই লাগু হয়েছিল এই বিধি। অনুষ্ঠান যতই থাক, প্রত্যেক ঘরে তখন বাঁধা রেশন, পুলিশি নজরদারি। লক্ষ্য ছিল একটাই, যেভাবে হোক অপচয় বন্ধ করতে হবে। আজ আর সেই খাদ্য সংকটের অভিশাপ নেই, তাই অতিথি নিয়ন্ত্রণ বিধির কথা বিয়ের কার্ডে লিখতেও হয় না। শুধু ওই ‘পত্রদ্বারা নিমন্ত্রণের ত্রুটি মার্জনীয়’ পর্যন্তই। কিন্তু আজও তো খাবার নষ্ট হয়! বিয়েবাড়িতে, হোটেলে, রেস্তরাঁয়! রেডিও অনুষ্ঠান ‘মন কি বাতে’ দিন কয়েক আগেই এই প্রসঙ্গ তুলেছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন বলে কথা! তাই তড়িঘড়ি এ ব্যাপারে রিপোর্ট পেশ করে দিল কেন্দ্রীয় খাদ্য, ক্রেতা সুরক্ষা ও জলবণ্টন মন্ত্রক। অর্থাৎ মন্ত্রী রামবিলাস পাসোয়ান। তাঁর বক্তব্য, একজন যদি দু’টো চিংড়ি খেতে পারেন, তাহলে তাঁকে ছ’টি চিংড়ি দেওয়া হবে কেন? কেউ যদি দু’টি ইডলি খেতে পারেন, তাহলে তাঁকে চারটি ইডলি দেওয়া হবে কেন?
অর্থাৎ এবার থেকে হোটেল-রেস্তরাঁয় গিয়ে খাওয়ার উপরও লাগাম পরাতে চলেছে নয়াদিল্লি। প্লেটে খাবারের পরিমাণ বেঁধে দেওয়ার ব্যাপারে প্রথমে বিভিন্ন পাঁচতারা হোটেলে একটি প্রশ্নপত্র পাঠানো হবে। তার উত্তর হাতে পাওয়ার পর ডাকা হবে হোটেল-রেস্তরাঁর কর্তা এবং সংগঠনগুলিকে। ফ্রান্স, জার্মানি, স্কটল্যান্ডের মতো কোনও কোনও দেশে ইতিমধ্যেই খাবারের অপচয় ঠেকাতে এমন ব্যবস্থা রয়েছে। খাবার নষ্ট করলে জরিমানাও করা হয় কোথাও কোথাও। তবে রেস্তরাঁগুলি তাদের প্লেটে কতটা করে খাবার দেবে, সেটা বেঁধে দেওয়ার খবর অবশ্য শোনা যায়নি। যা এবার ভারতে হবে। বিষয়টা ঠিক কেমন হবে, তা অবশ্য বুঝে উঠতে পারছেন না হোটেল মালিকরাও। তাঁরা বলছেন, আগে গোটা ব্যাপারটা পরিষ্কার হোক! সরকার অবশ্য যে রিপোর্ট পেশ করেছে তাতে একটা বিষয়ই পরিষ্কার। সেটা হল, বছরে ৬ কোটি ৭০ টন অর্থাৎ ৯২ হাজার ৬৫১ কোটি টাকার খাবার অপচয় হয়। যা দিয়ে গোটা বিহারকে এক বছর খাওয়ানো যাবে।
প্রশ্ন হল, এরপর কি তাহলে হোটেল-রেস্তরাঁয় খাবারের দাম কমবে? নাকি অপচয় করতে নেই, এই বোধটা ফিরে আসবে? আসলে গোটা বিষয়টাই শুরু হয় বাড়ি থেকে। ওই চ্যারিটি বিগিনস অ্যাট হোমের মতো। এক থালা ভাত নিয়ে যার অর্ধেক থালা ফেলে যাওয়ার অভ্যাস, সে তো রেস্তরাঁয় গিয়েও খাবার নষ্ট করবে! আর যে নিজের রান্নাঘরের প্রতিটা জিনিসের মূল্য বুঝবে, সে কোথাওই অপচয় হতে দেবে না। ব্যাপারটা শিক্ষার। সংস্কারের। এবং মূল্যবোধের। জোর করে প্লেট থেকে খাবার তুলে নিলেই যে সমাজের মধ্যে সচেতনতার ঝড় উঠবে, এমনটা কিন্তু মোটেও নয়। এর ফলে খুব বেশি হলে মনের ভিতরে একটা ভয় ঢুকবে। খাবার ফেলতে যাওয়ার আগে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি ভাববে, ফেলব না। জরিমানা করতে পারে। সীমাবদ্ধতা কিন্তু ওই পর্যন্তই। যেখানে মোদির লাঠি নেই, সেখানে সেই লোকটিই হয়তো খাবার নষ্ট করবে। মোদ্দা কথা হল, সমাজের মধ্যে সংস্কারের বীজটা রোপন করা। সেটা শুধু আইন করে হয় না। তাহলে এই দেশে কেউ আর খুন হত না। কারণ, ওই অপরাধের সাজাটাই তো সবচেয়ে বেশি! তাই নয় কি? ভাতের একটি কণা ফেলাও যে অপরাধ, সেটা বুঝতে হবে আমাদেরই। ভাবতে হবে, একমুঠো ভাত যা আমার থালায় আজ নষ্ট হল, তার অপেক্ষাতেই হয়তো তাকিয়ে বসে আছে কতগুলো মুখ।
সত্যিই তো, এখনও অনেক লোক ভালো করে খায় না।
13th  April, 2017
  কলকাতার পরিচয় নিরাপদ গৃহ

 মানুষ প্রথমে ছিল বনচারী কিংবা গুহাবাসী। তারপর এল নারী-পুরুষ, সন্তান-সন্ততি প্রভৃতি মিলে ‘পরিবার’-এর ধারণা। বন ও গুহাকে তখন আর নিরাপদ ও বাসযোগ্য বলে মনে হল না পরিবারগুলির কাছে। তখনই ঘর বাঁধার চিন্তা মাথায় এল তাদের।
বিশদ

সব অটো এবার আইনের শাসনে

গত পাঁচ-সাত বছরে কলকাতা এবং শহরতলির গণ পরিবহণ ব্যবস্থায় আমূল পরিবর্তন ঘটে গিয়েছে। আর এই বদলটা যে ইতিবাচকই হয়েছে—এ বিষয়ে দ্বিমত পোষণ করার অবকাশ বোধহয় নেই। বামফ্রন্ট সরকারের বয়োবৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে কলকাতাসহ সারা পশ্চিমবঙ্গে সরকারি গণ পরিবহণ ব্যবস্থায় রুগ্‌ণতার ছাপ গাঢ়তর হতে থাকে। সচল বাস, উপযুক্ত চালক ও কন্ডাক্টর ক্রমশ অমিল হয়ে যায়।
বিশদ

26th  July, 2017
বন্যার আগাম সতর্কতা জরুরি

বর্ষায় বৃষ্টি হবে, এর মধ্যে নতুনত্ব নেই। কিন্তু বছরের পর বছর জল ছাড়া নিয়ে ডিভিসি’র সঙ্গে রাজ্য সরকারের যে তরজা হয়, সেটাই রাজ্যবাসীর কাছে চিন্তার বিষয়। এমনিতেই শনি ও রবিবার তিলপাড়া, বৈধরা, ডেউচা প্রভৃতি ব্যারাজ থেকে জল ছাড়া শুরু হয়েছে।
বিশদ

25th  July, 2017
সুদ কমাচ্ছে, সামাজিক সুরক্ষার বিষয়টি কেন্দ্র এবার ভাববে কি?

 তুলনাটা টেনেছিলেন স্বয়ং কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি। উন্নত সব দেশেই সঞ্চয় প্রকল্পে সুদের হার মোটেই ভারতের মতো নয়। অনেকটাই কম। এবং, সেইসব দেশে ঋণের উপর সুদের হারটাও কম। কেন? কারণটা হল, স্বল্প সঞ্চয় প্রকল্পে সুদ কম হলে খুব স্বাভাবিকভাবেই বিনিয়োগের দিকে ঝুঁকবেন সাধারণ মানুষ। অর্থাৎ ব্যাবসায় আগ্রহ বাড়বে।
বিশদ

24th  July, 2017
মমতার হুঁশিয়ারি

কেন্দ্রীয় সরকারের আওতাধীন দুটি সংস্থা সিবিআই এবং ইডি’র নাম ইদানীং পশ্চিমবঙ্গের সাধারণ মানুষের কাছে অত্যন্ত পরিচিত হয়ে উঠেছে। চায়ের দোকানের আড্ডা থেকে রাজনৈতিক মঞ্চ, সর্বত্রই আজকাল বারে বারেই ওই দুই কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার নাম উচ্চারিত হয়। সৌজন্যে সারদা ও নারদ।
বিশদ

23rd  July, 2017
প্রণববাবু তবু অপরাজেয়

রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের ফল প্রকাশিত হয়েছে। প্রত্যাশামতোই বিজেপি তথা এনডিএ প্রার্থী দলিত নেতা রামনাথ কোবিন্দ জয়ী হয়েছেন। কিন্তু, এই জয় প্রবল প্রতাপশালী নরেন্দ্র মোদির দম্ভ ও অহংকারকে পুরোপুরি সন্তুষ্ট করতে পারল কি? বোধহয় না।
বিশদ

22nd  July, 2017
  দায় আমাদের সকলেরই

 শাস্ত্রবচনে গুরুকে ব্রহ্মা, বিষ্ণু ও মহেশ্বরের সঙ্গে তুলনা করা হয়েছে। সেসব শাস্ত্রীয় ব্যাখ্যা আজকালকার দিনের ছেলেপিলেরা ফুঁকে উড়িয়ে দিয়েছে। আর সে কারণেই উচ্ছৃঙ্খলতার প্রতিবাদ করে ছাত্রদের হাতে বেদম মার খেতে হল কোচবিহারের পুণ্ডিবাড়ির রাধামোহন লাখোটিয়া উচ্চ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে।
বিশদ

21st  July, 2017
  চৈতন্য কবে হবে আমাদের?

 বহু বছর ধরেই আমাদের রাজ্যে এবং দেশের নানা প্রান্তে বছরে একাধিকবার করে ‘পথ নিরাপত্তা সপ্তাহ’ পালন করা হয়। এছাড়া এ-রাজ্য নতুন আওয়াজ তুলেছে—‘সেফ ড্রাইভ সেভ লা‌ইফ’। এটি মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্বপ্নের কর্মসূচিগুলির একটি।
বিশদ

20th  July, 2017
  রক্ত নিয়েও ছেলেখেলা!

 অনেক কিছুই কৃত্রিম হয়। ব্যতিক্রম রক্ত। রক্তের মতো জীবনদায়ী উপকরণটি সংগ্রহ করতে হয় মানুষেরই শরীর থেকে। কোনও নারী বা পুরুষ দান করলে পরেই রক্ত মেলে। রক্ত হল মানুষের মহৎ দানের একটি। তাই রক্ত সংগ্রহ এবং সংরক্ষণ করতে হয় বৈজ্ঞানিক পদ্ধতি মেনে ও অতি সন্তর্পণে।
বিশদ

19th  July, 2017
 চীনের উসকানি, ভারতের প্রস্তুতি

 পাকিস্তানের সঙ্গে চীনের যে এখন গলায় গলায় দোস্তি সেটা বোঝানোর জন্য বেজিং যেন উঠেপড়ে লেগেছে। প্রয়োজনে তারা পায়ে পা দিয়ে ঝগড়া বাধিয়ে সেটা আরও বেশি করে বোঝাতে চাইছে। তাই তারা মাঝেমাঝেই রক্তচক্ষু করে ভারতের দিকে তাকিয়ে হুংকার দেয়। বুঝিয়ে দেয়, পাকিস্তানের সঙ্গে বেশি লেগো না বাপু, আমরা ওদের পাশে আছি।
বিশদ

18th  July, 2017
অশান্ত কাশ্মীর এবং চীনের জাল বিস্তার

১৯৬২ সালে সীমান্ত উত্তেজনা এবং তারপরই ভারতের উপর চীনের হামলায় রীতিমতো উদ্বেগে পড়ে গিয়েছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জন এফ কেনেডি। তাঁর মনে হয়েছিল, হিমালয়ে লাল ফৌজের বিরুদ্ধে যুদ্ধে ভারতীয় বাহিনীর ব্যস্ততার সুযোগ নিয়ে পাকিস্তান কাশ্মীর দখলের জন্য ঝাঁপ দেবে না তো? এমন একটা ধারণা অমূলক মোটেই ছিল না।
বিশদ

17th  July, 2017
  পাহাড় পরিস্থিতি স্বাভাবিক হোক

 পাহাড়ে গোর্খা জনমুক্তি মোর্চার আন্দোলনের জেরে মাসাধিককাল ধরে জনজীবন বিপর্যস্ত। রাজনৈতিক দড়ি টানাটানি ও গুটিকতক মানুষের স্বার্থে পাহাড়ের লক্ষ লক্ষ বাসিন্দার দুর্ভোগের শেষ নেই। দিন যত এগচ্ছে, পরিস্থিতি ততই শোচনীয় হয়ে উঠছে। হিংসার উন্মত্ত তাণ্ডবে সাধারণ মানুষের নিরাপত্তা প্রশ্নের মুখে দাঁড়িয়েছে।
বিশদ

16th  July, 2017
  জেলের দুর্নীতি বন্ধ হোক

 এ দেশে জেলের ভিতরকার ভয়ংকর চেহারা নিয়ে লেখাজোকা, সিনেমা, নাটক বড় কম হয়নি। গরিব, অখ্যাত অপরাধীদের জন্য এককথায় জেল বদ্ধভূমি। অস্বাহ্যকর নোংরা পরিবেশ। প্রায়শই একদল বন্দির সঙ্গে অন্য একদল অপরাধীর মারামারি সংঘর্ষ। খিস্তি, খেউড়।
বিশদ

15th  July, 2017



একনজরে
 বিএনএ, জলপাইগুড়ি: বুধবার খুনের দায়ের একজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিল জলপাইগুড়ি জেলা আদালত। আদালত সূত্রে জানা গিয়েছে, ২০১০ সালে ১ অক্টোবর কোতোয়ালি থানার পবিত্রপাড়ায় একটি খুনের মামলায় নিশার বিশ্বাসকে এদিন বিচারক যাবজ্জীবন সাজা এবং ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও এক ...

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: কৈখালি এলাকায় তৃণমূল আশ্রিত সিন্ডিকেটের ‘দাদাদের’ দাপটে নাজেহাল এলাকার বাসিন্দারা। এমনই অভিযোগ তুলে নবান্নে ও বিধাননগরের পুলিশ কমিশনার জ্ঞানবন্ত সিংকে চিঠি দিয়েছেন বিধাননগর পুরসভার তৃণমূল কাউন্সিলার সুভাষ বসু। তাঁর অভিযোগ, এই এলাকার বাসিন্দারা সিন্ডিকেটের লোকজনের দাপটে অতিষ্ঠ ...

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: রাজ্যের বহু স্কুলে কম্পিউটার নেই। আবার কোথাও কম্পিউটার থাকলেও নেই ইন্টারনেট সংযোগ। এই অবস্থায় মাধ্যমিক স্তরের ছাত্রীদের কেন্দ্রীয় স্কলারশিপের টাকা পেতে অনলাইনে আবেদন করার নির্দেশকে ঘিরে শুরু হয়েছে বিতর্ক। মানবসম্পদ উন্নয়ন মন্ত্রক স্কলারশিপের আবেদন সংক্রান্ত নিয়ম পরিবর্তন ...

মুম্বই, ২৬ জুলাই (পিটিআই): প্রতিদিনই নতুন রেকর্ড গড়ছে শেয়ার বাজারের সূচক। এদিন বম্বে স্টক এক্সচেঞ্জের সূচক সেনসেক্স ১৫৪ পয়েন্ট বৃদ্ধি পেয়ে ৩২ হাজার ৩৮২.৪৬ পয়েন্টে পৌঁছেছে। এত পয়েন্টে এর আগে কখনও সেনসেক্স পৌঁছায়নি। ...


আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

উচ্চতর বিদ্যায় সাফল্য আসবে। প্রেম ভালোবাসায় আগ্রহ বাড়বে। পুরানো বন্ধুর সঙ্গে সাক্ষাতে আনন্দ লাভ হবে। ... বিশদ



ইতিহাসে আজকের দিন

 ১৮৪৪- ব্রিটিশ বিজ্ঞানী জন ডালটনের মৃত্যু
১৯৬০- শিবসেনা প্রধান উদ্ধব থ্যাকারের জন্ম
১৯৯২- অভিনেতা আমজাদ খানের মৃত্যু
২০১৫- প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি এপিজে আবদুল কালামের মৃত্যু



ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৬৩.৬০ টাকা ৬৫.২৮ টাকা
পাউন্ড ৮২.৫২ টাকা ৮৫.৩৫ টাকা
ইউরো ৭৩.৭৮ টাকা ৭৬.৩৮ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ২৮,৮২৫ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ২৭,৩৫০ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ২৭,৭৬০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৩৮,২০০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৩৮,৩০০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]

দিন পঞ্জিকা

 ১১ শ্রাবণ, ২৭ জুলাই, বৃহস্পতিবার, চতুর্থী দিবা ৭/১, উত্তরফাল্গুনীনক্ষত্র রাত্রি ৪/৪০, সূ উ ৫/৯/৩৯, অ ৬/১৬/৩১, অমৃতযোগ রাত্রি ১২/৪৮-২/৫৮, বারবেলা ৩/০-অস্তাবধি, কালরাত্রি ১১/৪৩-১/৪।
১০ শ্রাবণ, ২৭ জুলাই, বৃহস্পতিবার, চতুর্থী ১০/০/৭, পূর্বফাল্গুনীনক্ষত্র ৮/৬/৪৫, সূ উ ৫/৬/৩৭, অ ৬/১৮/৫৩, অমৃতযোগ রাত্রি ১২/৪৭/৩১-২/৪৭/৪, বারবেলা ৪/৩৯/৫১-৬/১৮/৫৩, কালবেলা ৩/০/৪৯-৪/৩৯/৫১, কালরাত্রি ১১/৪২/৪৫-১/৩/৪৩।
 ৩ জেল্কদ

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
আগামীকাল বিহারের মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে বিজেপির সমর্থন নিয়ে ফের শপথ নেবেন নীতীশ কুমার

26-07-2017 - 11:03:16 PM

হাসপাতাল রাজ্যপাল কে এন ত্রিপাঠি
বিহার ও পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল কে এন ত্রিপাঠি ইএনটি সমস্যা নিয়ে ভরতি হলেন পাটনার ইন্দিরা গান্ধী ইনস্টিটিউট অফ মেডিকেল সায়েন্স হাসপাতালে

26-07-2017 - 10:29:00 PM

 রাত ১০টায় ২ লক্ষ ৩১ হাজার ৪৫০ কিউসেক জল ছাড়ল দুর্গাপুর ব্যারেজ

26-07-2017 - 10:26:00 PM

দুর্গাপুর ব্যারেজ থেকে রাত ৯ টায় ২ লক্ষ ২৫ হাজার ৪৫০ কিউসেক জল ছাড়া হল

26-07-2017 - 09:41:02 PM

 ঘাটালের প্রতাপপুরের কাছে ১৫ মিটারের মতো বাঁধ ভেঙেছে বলে জানালেন জেলার ভারপ্রাপ্ত মহকুমা শাসক অমিত শেঠ।

26-07-2017 - 09:26:00 PM

 নীতীশ কুমারের দলকে বিজেপি সমর্থন করবে, জানালেন সুশীল মোদি

26-07-2017 - 09:11:30 PM