Bartaman Patrika
রাজ্য
 

ওয়ার্ডে হারলে টিকিট পাবেন না কাউন্সিলার
দিতেই হবে লিড, সতর্ক করে দিল তৃণমূল

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: রাজ্যে আসন বাড়াতে দল ভাঙানোর খেলায় নেমেছে বিজেপি। আর সেই বিজেপিকে রুখে দিতে বদ্ধপরিকর তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ৪২টি আসনের সবক’টিই পাওয়া যে তাঁর পাখির চোখ, সেকথা তিনি সম্প্রতি বিভিন্ন সভায় প্রকাশ্যেই ঘোষণা করেছেন। সে কারণে দলীয় স্তরে টার্গেট ঠিক করে দিচ্ছেন মমতা। পুরদলের নেতা ফিরহাদ হাকিম পরিষ্কার জানিয়েছেন, তৃণমূলের প্রার্থীকে জয়ী করতেই হবে। যে ওয়ার্ডে সেই কাজে কাউন্সিলার ব্যর্থ হবেন, সেখানে ভবিষ্যতে তাঁকে আর টিকিট দেওয়া হবে না।
ফিরহাদ হাকিমের এই ঘোষণায় তৃণমূলের মধ্যে নাড়াচাড়া পড়ে গিয়েছে। কিছু কাউন্সিলারের মত, ভোট পরিচালনার দায়িত্ব তাঁদের হাতে দিতে হবে। কারণ, সেটা নাকি অনেক সময়ই তাঁদের হাতে থাকে না। সেই বার্তা তাঁরা ববি হাকিমের কাছে পৌঁছেও দিয়েছেন। কাউন্সিলারদের একাংশ যে দাবিই করুন না কেন, একটা বিষয় পরিষ্কার, আগামী দিনে টিকিট পাওয়ার জন্য তাঁদের এখনই প্রাণপাত করতে হবে। দলীয় প্রার্থীকে জেতাতে ঝাঁপিয়ে পড়তে হবে। তাই ইতিমধ্যে বহু কাউন্সিলারই দলীয় প্রার্থীর সমর্থনে দেওয়াল লিখন, প্রার্থীকে নিয়ে প্রচারে নেমে পড়েছেন। শুরু হয়ে গিয়েছে বুথ কমিটি গঠন। একই সঙ্গে বুথ অনুযায়ী এজেন্ট তৈরির কাজ। যাঁদের ভালো করে স্ত্রুটিনি করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ভোটের জন্য গোটা মেশিনারি সাজাতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে তৃণমূল স্তরে। সব বিরোধী যখন প্রার্থী ঘোষণা করতে পারেনি, তৃণমূল তখন প্রার্থী ঘোষণা করে প্রচারে নেমে পড়েছে।
রাজ্যে ১২৬টি পুরসভার মোট কাউন্সিলারের সংখ্যা ৩৬০০। তার মধ্যে প্রায় ৩৫০০ কাউন্সিলার তৃণমূলের। এই কাউন্সিলাররাই দলের স্থানীয় স্তরে প্রধান মুখ। তাঁরাই মূলত দলের সংগঠন করেন। তৃণমূল দল অনেকটাই কাউন্সিলার ভিত্তিক। দল একটা বিষয় বুঝতে পারছে, কাউন্সিলারদের ব্যবহার, আচার-আচরণ, দৈনন্দিন জীবনযাপনের স্টাইল, সাংগঠনিক ক্ষমতা মানুষের মধ্যে বিরাট প্রভাব ফেলে। কিছু কাউন্সিলারের জনসংযোগ ক্ষমতা যেমন দলকে শক্তিশালী করেছে, ভোট বেড়েছে, আবার কিছু কাউন্সিলারের দুর্ব্যবহার, ঔদ্ধত্যপূর্ণ আচরণ, বদলে যাওয়া জীবনযাপন মানুষের মধ্যে খারাপ প্রভাব ফেলেছে। সেই কথা মাথায় রেখেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কাউন্সিলারদের সতর্ক করেছেন বলে ধারণা। সেই সঙ্গে পুরসভাগুলির নাগরিক পরিষেবার কাজ আরও বৃদ্ধি করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। যাতে কাজ নিয়ে সাধারণ মানুষের মধ্যে ক্ষোভ না জন্মায়।
উল্লেখ্য, লোকসভা ভোট মিটলেই দু’-এক মাসের মধ্যে হাওড়া, চন্দননগর, পানিহাটি, হাবড়া, ডায়মন্ডহারবার, বর্ধমান, বহরমপুর সহ ১৮টি পুরসভার ভোট হবে। আর আগামী বছর মে-জুন মাসে কলকাতা, সল্টলেক, দক্ষিণ দমদম, দমদম, বরানগর, কামারহাটি, মধ্যমগ্রাম, বারাসত, খড়দহ, টিটাগড়, বারাকপুর, উত্তর বারাকপুর, ভাটপাড়া, নৈহাটির মতো বড় পুরসভা সহ ৮২টি পুরসভার ভোট রয়েছে। তাই লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল কাউন্সিলারদের পারফরম্যান্সের ক্ষেত্রে বড় মাপকাঠি হিসেবে চিহ্নিত হবে। সেই কারণে আগামী পুরভোটের কথা মাথায় রেখে কাউন্সিলারদের এখন থেকেই বাড়ি বাড়ি গিয়ে জনসংযোগ বৃদ্ধির উপরে জোর দিতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। রা‌জ্য ঩সরকারের যেসব জনমুখী প্রকল্প রয়েছে, তা মানুষের কাছে পৌঁছে দিতেও কাউন্সিলারদের বলা হয়েছে।
কাউন্সিলারদের মতো পঞ্চায়েতের প্রতিনিধিদেরও তাঁদের নিজেদের আসনে লিড দিতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। অর্থাৎ লোকসভা নির্বাচনের ফলাফলের উপর নিচুতলার নেতাদের যে ভাগ্য নির্ভর করছে, সেটাই পরিষ্কার করে দিয়েছে দল। আর সে কারণেই জেলাস্তরের নেতৃত্বের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখছেন মমতা। বিজেপি যেসব নেতাদের ‘টোপ’ দিচ্ছে, তাঁদের সঙ্গে কথা বলছেন তিনি। এছাড়াও কথা বলছেন সুব্রত বক্সি, পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও ফিরহাদ হাকিম। যাতে কোনও পুরসভা বিজেপি ভাঙতে না পারে, তার জন্য পুরকর্তাদের সঙ্গে কথাও বলছেন তাঁরা। দলত্যাগী বিধায়ক তথা চেয়ারম্যান অর্জুন সিংয়ের মতো আরও কেউ কেউ বিজেপিতে যেতে পারে বলে অনুমান করেই বিকল্প নেতৃত্বের খোঁজ চলছে। বারাকপুর মহকুমায় তরুণ ও নতুন নেতৃত্বের হাতে দলের দায়িত্ব তুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।
16th  March, 2019
ত্রিস্তরীয় নিরাপত্তায় রাজ্যের ৫৮ কেন্দ্রে ভোটগণনা আজ

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: আজ, বৃহস্পতিবার সকাল আটটায় সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনের ভোটগণনা শুরু হবে। রাজ্যে ৪২টি লোকসভা কেন্দ্রের জন্য ৫৮টি গণনাকেন্দ্রে ৩৭৯টি হলে ৪৬৬৮টি টেবিলে গণনা হবে। এ জন্য ত্রিস্তরীয় নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়েছে নির্বাচন কমিশন। ভোট গণনা যাতে নির্বিঘ্নে হয়, তার জন্য ১৫৫ জন পর্যবেক্ষক রাজ্যে হাজির থাকবেন।
বিশদ

কর্মীরা মাটি কামড়ে পড়ে থাকুন গণনাকেন্দ্রে: মমতা

 নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: এক্সিট পোলকে আগেই বলেছিলেন কর্পোরেট হাউসের তৈরি গসিপ। ফের ক্ষমতায় মোদি, এই সম্ভাবনাকে সামনে রেখে সর্বভারতীয় বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম যে এক্সিট পোল প্রকাশ করেছিল, তা মানুষকে প্রভাবিত করার চেষ্টা বলে সেদিনই অভিযোগ করেছিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো।
বিশদ

হারার আগে হার মানতে নারাজ সিপিএম, রাজ্যে শক্তিবৃদ্ধির কথা বলে বোঝালেন সূর্য

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: হারার আগে হার মানতে নারাজ সিপিএম। প্রতিপক্ষ শিবির বা বুথ ভিত্তিক নমুনা সমীক্ষা যাই বলুক না কেন, আজ বৃহস্পতিবার গণনার আগে কর্মী-সমর্থকদের মনোবল অটুট রাখতে বাংলায় বামেদের প্রাসঙ্গিকতা বজায় রাখার মতো ফল হবে বলে জোর গলায় দাবি করলেন দলের রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্র।
বিশদ

এভারেস্টে মানবজট, শৃঙ্গজয়ের লক্ষ্যে লাইনে দাঁড়িয়ে প্রায় ৩০০ অভিযাত্রী

 রাহুল দত্ত, কলকাতা: ‘চলতি বাসে কিংবা ট্রামে, সামনে-পিছে-ডাইনে-বামে, যেখানেই যাও, লাইন লাগাও’। বিশিষ্ট সংগীত পরিচালক বাপ্পি লাহিড়ীর বাবা অপরেশ লাহিড়ীর গলায় একসময় এই গান বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছিল।
বিশদ

সমীক্ষাকে ছাপিয়ে যাবে বিজেপির সাফল্য: দিলীপ
জয় উদযাপনে মজুত গেরুয়া আবির, কলকাতায় কমলাভোগ বিলির উদ্যোগ

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: এক্সিট পোলে পশ্চিমবঙ্গে বিজেপির অবিশ্বাস্য সাফল্য মেলার ইঙ্গিত মিলেছে। যা নিয়ে গেরুয়া শিবিরের রাজ্য নেতারা উচ্ছ্বাস চেপে রাখতে পারেননি। রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ একধাপ এগিয়ে ভবিষ্যৎবাণী করেছেন, বুথ ফেরত সব সমীক্ষাকে ছাপিয়ে বাংলায় ২৩টিরও বেশি আসন জিতবে বিজেপি।
বিশদ

ফল যাই হোক বঙ্গ নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠকে বসবেন অমিত শাহ
লোকসভা ভোটের ফল ঘোষণার পরই ‘মিশন ২০২১’-এর জন্য এরাজ্যে ঝাঁপাতে চলেছে বিজেপি

দিব্যেন্দু বিশ্বাস, নয়াদিল্লি, ২২ মে: ভোটের ফল যাই হোক, আগামীকাল লোকসভার নির্বাচনী ফলাফল প্রকাশের পরেই পশ্চিমবঙ্গে বিজেপি ঝাঁপাচ্ছে ‘মিশন ২০২১’-এর জন্য। আর তাই ফল প্রকাশের পর দলের বঙ্গ নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠকে বসতে চলেছেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ।
বিশদ

 রাজ্য বিধানসভায় প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেস কি না, তারও ইঙ্গিত আজ

 নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: রাজ্য বিধানসভায় প্রধান বিরোধী দলের মর্যাদা কংগ্রেসের থাকবে কি না, আজ বৃহস্পতিবারের ভোট গণনায় তারও ইঙ্গিত মিলবে। দল বদলে লোকসভা ভোটে প্রার্থী হওয়ায় নির্বাচন কমিশনের আইন অনুসারে ছয়জন বিধায়ক পদ থেকে ইস্তফা দিয়েছেন।
বিশদ

 কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্ত বৃষ্টি হলেও গাঙ্গেয় বঙ্গে গরম চলবে

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: আজ, বৃহস্পতিবার লোকসভা ভোটের গণনার দিন গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গে অস্বস্তিকর ভ্যাপসা গরম থাকবে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়াবিদরা। বিকেলের পর কোথাও কোথাও বিক্ষিপ্ত বৃষ্টি হলেও গরম থেকে বিশেষ স্বস্তি মিলবে না। কারণ বাতাসে জলীয় বাষ্পের মাত্রা বেশি থাকার পাশাপাশি তাপমাত্রাও চড়া আছে।
বিশদ

 ইউরোলজি’র এমসিএইচ আসন এখন দেশে সবচেয়ে বেশি বাংলায়

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: ইউরোলজি’র সর্বোচ্চ ডিগ্রি এমসিএইচ ইউরোলজিতে দেশের সবচেয়ে বেশি সংখ্যক ছাত্রছাত্রীকে পড়ানোর যোগ্যতা লাভ করল পিজি হাসপাতাল। এতদিন এই হাসপাতালে পাঁচটি আসনে ইউরোলজিতে এমসিএইচ পড়ানো হতো। হাসপাতালের ইউরোলজি বিভাগ আসন সংখ্যা পাঁচ থেকে বাড়িয়ে ১০ করার জন্য আবেদন জানিয়েছিল।
বিশদ

রেশন ডিলারদের দেওয়া কমিশন নিয়ে ফের প্রশ্ন তুলল কেন্দ্র

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: রাজ্যের রেশন দোকানের ডিলারদের কমিশনের পরিমাণ নিয়ে প্রশ্ন তুলল কেন্দ্রীয় সরকার। লোকসভা ভোট পর্ব চলার মধ্যে কেন্দ্রীয় খাদ্য মন্ত্রকের অর্থনৈতিক উপদেষ্টা মনীশা সেনশর্মা খাদ্য দপ্তরের প্রধান সচিব মনোজ আগরওয়ালকে এব্যাপারে চিঠি দিয়েছেন।
বিশদ

যমজ দু’ভাইয়ের বড়জন চতুর্থ, একাদশ হয়ে রিভিউ চায় ছোটভাই

  নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: ছোট থেকেই যমজ দু’ভাই পড়াশোনায় তুখোড়। কিন্তু মাধ্যমিকে যে দু’জনই তাক লাগিয়ে দেবে, এতটা বোধহয় ভাবেননি অনেকেই। ৬৮৭ নম্বর পেয়ে মাধ্যমিকে চতুর্থ হয়েছে আলিপুরদুয়ারের বড়বিশা হাইস্কুলের ছাত্র অরিত্র সাহা। তার ভাই অরিন সাহা এক নম্বরের জন্য মেধা তালিকায় জায়গা পায়নি।
বিশদ

দুটি বিজ্ঞপ্তি কবে, রাজ্য কর্মীদের নজর সেদিকেই

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: লোকসভা ভোটের গণনা পর্বের মধ্যে রাজ্য সরকারি কর্মীদের নজর এখন দুটি নির্দেশিকা কবে জারি হবে, সেদিকেই। প্রথম নির্দেশিকটি হল, ষষ্ঠ বেতন কমিশন সম্পর্কিত। গত ২৫ নভেম্বর বেতন কমিশনের কার্যকালের মেয়াদ ছ’মাসের জন্য বৃদ্ধি করা হয়েছিল। সেই সময়সীমা চলতি সপ্তাহেই শেষ হয়েছে।
বিশদ

 সরকারি স্কুলগুলিতে একাদশে অনলাইনে ভর্তি প্রক্রিয়া শুরু

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: বুধবার থেকেই শুরু হয়ে গেল সরকারি স্কুলগুলির একাদশ শ্রেণীতে ভর্তি প্রক্রিয়া। কেন্দ্রীয়ভাবে অনলাইনে ভর্তি প্রক্রিয়া হচ্ছে। অনলাইনে একটি বা একাধিক ফর্ম ডাউনলোড করে বা তার কপি করে তা পূরণ করে জমা দেওয়া যাচ্ছে। ফর্ম জমা দেওয়া যাবে ২৮ মে পর্যন্ত।
বিশদ

মাধ্যমিকে জয় জেলারই
রেকর্ড নম্বর পেয়ে শীর্ষে পূর্ব মেদিনীপুরের সৌগত

নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা এবং বিএনএ: মাধ্যমিকে নম্বরের পাহাড়চূড়ায় উঠে ইতিহাস গড়লেন পূর্ব মেদিনীপুরের মহম্মদপুর দেশপ্রাণ বিদ্যাপীঠের সৌগত দাস। মাধ্যমিকে প্রথম সৌগত ৭০০’র মধ্যে পেয়েছে ৬৯৪। মঙ্গলবার সাংবাদিক বৈঠক করে মধ্যশিক্ষা পর্ষদের সভাপতি কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায় বলেছেন, এই নম্বর পর্ষদের ইতিহাসে সর্বোচ্চ। গত বছর ৬৮৯ পেয়ে নজির গড়েছিল কোচবিহারের সঞ্জীবনী দেবনাথ। সার্বিক পাশের হার অবশ্য খুব বেশি বাড়েনি। গতবার পাশের হার ছিল ৮৫.৪৯ শতাংশ। এবার ০.৫৮ শতাংশ বেড়ে তা হয়েছে ৮৬.০৭ শতাংশ। ছাত্রীদের (৮২.৮৭%) তুলনায় পাশের হারে এগিয়ে ছাত্ররা (৮৯.৯৭%)। তবে কলকাতার মান বাঁচিয়েছে একমাত্র যাদবপুর বিদ্যাপীঠ। এই স্কুলের সোহম দাস দশম স্থান পেয়ে কলকাতায় প্রথম হয়েছে। তার প্রাপ্ত নম্বর ৬৮১।
বিশদ

22nd  May, 2019

Pages: 12345

একনজরে
সংবাদদাতা, খড়্গপুর: সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্রের নারায়ণগড়ে বামের ভোট রামে চলে যাওয়ার ব্যাপারে একপ্রকার নিশ্চিত তৃণমূল নেতৃত্ব। তাই বিধানসভা ভোটের লিড ধরে রাখা যাবে কি না, তা নিয়ে সংশয়ে রয়েছেন দলের নেতারা।   ...

সংবাদদাতা, কুমারগ্রাম: দিনমজুরের মেয়ে রেশমী রায় এবছর মাধ্যমিক পরীক্ষায় ৮০ শতাংশ নম্বর পেয়ে সবাইকে তাক লাগিয়ে দিয়েছে। শুধুমাত্র মনের ইচ্ছা এবং একাগ্রতা থাকলে যে বাধা ...

শ্বকাপে খেলতে ইংল্যান্ডে পৌঁছে গিয়েছে ভারতীয় দল। আগামী ৩০ মে উদ্বোধনী ঘণ্টা বাজবে ক্রিকেটের বৃহত্তম প্রতিযোগিতার। আয়োজক দেশ ইংল্যান্ড ও দক্ষিণ আফ্রিকার ম্যাচ দিয়ে শুরু ...

সংবাদদাতা, হরিপাল: হরিপালের নালিকুল পূর্ব পঞ্চায়েতের অন্তর্গত পূর্ব গোপীনাথপুর ও সিঙ্গুর ব্লকের মধ্য হিজলার উপর প্রায় ২ কোটি টাকা খরচে কানা নদীর উপর তৈরি হচ্ছে ...




আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

শরীর-স্বাস্থ্য মাঝেমধ্যে বিরূপ হলেও খুব একটা চিন্তার কারণ হবে না। ভ্রমণযোগ বিদ্যমান। মাঝেমধ্যে প্রতিবেশীদের থেকে ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৯০৬-নাট্যকার হেনরিক ইবসেনের মৃত্যু
১৯১৮: ইংরেজ ক্রিকেটার ডেনিস কম্পটনের জন্ম
১৯১৯-জয়পুরের রাজমাতা গায়ত্রী দেবীর জন্ম
১৯৫১-বিশিষ্ট দাবাড়ু আনাতোলি কারাপোভের জন্ম

ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৬৮.৮৮ টাকা ৭০.৫৭ টাকা
পাউন্ড ৮৭.০৬ টাকা ৯০.২৬ টাকা
ইউরো ৭৬.৩৫ টাকা ৭৯.২৯ টাকা
[ স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া থেকে পাওয়া দর ]
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ৩২,০৩৫ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ৩০,৩৯৫ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ৩০,৮৫০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৩৬,২৫০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৩৬,৩৫০ টাকা
[ মূল্যযুক্ত ৩% জি. এস. টি আলাদা ]

দিন পঞ্জিকা

৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ২৩ মে ২০১৯, বৃহস্পতিবার, পঞ্চমী ৫৮/২৩ রাত্রি ৪/১৯। পূর্বাষাঢ়া ০/৩৯ প্রাতঃ ৫/১৩। সূ উ ৪/৫৭/৩৪, অ ৬/৮/৫৪, অমৃতযোগ দিবা ৩/৩১ গতে অস্তাবধি। রাত্রি ৬/৫২ গতে ৯/২ মধ্যে পুনঃ ১১/৫৫ গতে ২/৪ মধ্যে পুনঃ ৩/৩১ গতে উদয়াবধি, বারবেলা ২/৫১ গতে অস্তাবধি, কালরাত্রি ১১/৩৩ গতে ১২/৫৪ মধ্যে।
৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ২৩ মে ২০১৯, বৃহস্পতিবার, পঞ্চমী ৫৮/১/৪১ শেষরাত্রি ৪/৯/৩৩। পূর্বাষা‌ঢ়ানক্ষত্র ২/০/১৯ প্রাতঃ ৫/৪৫/১, সূ উ ৪/৫৬/৫৩, অ ৬/১১/১৭, অমৃতযোগ দিবা ৩/৩৭ গতে ৬/১২ মধ্যে এবং রাত্রি ৭/০ গতে ৯/৮ মধ্যে ও ১১/৫৮ গতে ২/৪ মধ্যে ও ৩/৩০ গতে ৪/৫৭ মধ্যে, বারবেলা ৪/৩১/৫৯ গতে ৬/১১/১৭ মধ্যে, কালবেলা ২/৫২/৪১ গতে ৪/৩১/৫৯ মধ্যে, কালরাত্রি ১১/৩৪/৫ গতে ১২/৫৪/৪৭ মধ্যে। 
১৭ রমজান

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
ঘেরাও মুক্ত হলেন বিশ্বভারতীর উপাচার্য 

22-05-2019 - 04:21:49 PM

১৪০ পয়েন্ট উঠল সেনসেক্স 

22-05-2019 - 03:52:18 PM

ধূপগুড়ির বিএমওএইচ-এর বিরুদ্ধে এফআইআর করার অভিযোগে চাকরি থেকে বরখাস্ত করা হল স্বাস্থ্য দপ্তরের এক চুক্তিভিত্তিক কর্মীকে 

22-05-2019 - 03:03:00 PM

জম্মু ও কাশ্মীরের পুঞ্চে আইইডি বিস্ফোরণ, শহিদ ১ জওয়ান, জখম ৭ 

22-05-2019 - 01:31:14 PM

২১ ঘণ্টা ধরে অবরুদ্ধ বিশ্বভারতীর উপাচার্য এবং অধ্যাপকরা 
ফি বৃদ্ধির প্রতিবাদে ছাত্র আন্দোলনে জেরে ২১ ঘণ্টা ধরে অবরুদ্ধ ...বিশদ

22-05-2019 - 01:27:28 PM

বর্ধমানের শাঁখারিপুকুর এলাকায় গাড়ি-লরির মুখোমুখি সংঘর্ষ, মৃত ২ 

22-05-2019 - 01:23:08 PM