কলকাতা
 

  মদাই ও শাঁখাভাঙা গ্রামে অভিযানে গিয়ে আক্রান্ত পুলিশসহ আবগারি কর্তারা

নিজস্ব প্রতিনিধি, হাওড়া: উলুবেড়িয়া থানার ভাগীরথী নদীর তীরে শাঁখাভাঙা এবং মদাই গ্রামে বুধবার সন্ধ্যায় আবগারি দপ্তর পুলিশ নিয়ে চোলাই মদের ভাটিতে দফায়-দফায় হানা দেয়। চারটি নৌকা সমেত কয়েক লক্ষ টাকার মদ তৈরির কাঁচামাল এবং মদ নষ্ট করে দিতেই আবগারি দপ্তরের লোকজন স্থানীয় বাসিন্দাদের হামলার মুখে পড়ে যায়। কয়েকশো পুরুষ ও মহিলা ছোট-ছোট বাচ্চাদের সঙ্গে নিয়ে এসে আবগারি দপ্তরের আধিকারিক এবং পুলিশের উপর বাঁশ-লাঠি, ইট-পাটকেল নিয়ে চড়াও হয়। ব্যাপক হারে ইট-পাটকেল ছুঁড়ে পুলিশ ও আবগারি দপ্তরের লোকজনকে নাস্তানাবুদ করে ছাড়ে। আটক করা চারটি নৌকা তারা ছাড়িয়ে নেয়। তাড়া খেয়ে পুলিশ এবং আবগারি দপ্তরের লোকজন এলাকা ছেড়ে পালাতে বাধ্য হয়। তবে প্রচুর টাকার চিটে গুড়, নিশাদল সহ হাঁড়িসহ বহু জিনিস নষ্ট করা হয়। এই ঘটনায় শাঁখাভাঙা এবং মদাই পাশাপাশি দু’টি গ্রামে ব্যাপক উত্তেজনার সৃষ্টি হয়।
উলুবেড়িয়া থানার এই দু’টি প্রত্যন্ত গ্রামের মাঝে একটি সরু খাল। যে খালের দুই পাড়ে বাঁশবাগান, আমবাগানের মধ্যে শত-শত চোলাই মদের ভাটি প্রায় ৫০ বছর ধরে চলছে। এই দুই গ্রামের কুটিরশিল্পে পরিণত হয়েছে চোলাইয়ের ভাটি। শুধু ভাটিখানায় নয়, বাড়ি-বাড়িতেও এই চোলাই তৈরি করে গঙ্গা পেরিয়ে দক্ষিণ ২৪ পরগনার বিভিন্ন এলাকায় পাচার হয়। অনেকে বলেন, মদের ভাটির জন্য গ্রামের নাম মদাই। আর মদ খেয়ে বাড়ির পুরুষরা সব অকালে মারা যায়। গৃহবধূদের হাতের শাঁখা ভেঙে বিধবা হতে হয়, তাই গ্রামের নাম শাঁখাভাঙা। যদিও এসব ক্ষোভের কথার কোনও ভিত্তি পাওয়া যায় না।
কয়েকমাস আগে শাঁখাভাঙা এবং মদাইয়ের এই চোলাই ভাটিগুলি বারবার অভিযান চালিয়ে আবগাড়ি দপ্তর ও পুলিশ নষ্ট করে দেয়। এরপর থেকে এরা ভাগীরথীর পাড়ে আগুন জ্বেলে চোলাই তৈরি করতে শুরু করে। আবগারি দপ্তর বা পুলিশ আসছে কি না সে জন্য দূরে হাতে মোবাইল ফোন নিয়ে একজনকে নজরদারিতে রাখা হয়। পুলিশ ঢুকলেই ভাটিতে ফোনে খবর হয়ে যায়। আর মালপত্র হাতে-হাতে নৌকায় তুলে নিয়ে লোকজন সব গঙ্গা দিয়ে পালিয়ে যায়। কয়েকবার অভিযান চালিয়ে আবগারি দপ্তর এই ছক ধরে ফেলে। তাছাড়া একদিন হানা দিলে তারপর দিন ১৫ আর কেউ আসবে না এটা নিশ্চিত। আবগারি দপ্তর এই চালাকি ধরতে পালটা ছক করে বুধবার সকালে পুলিশ নিয়ে অভিযান চালায়। যথারীতি ভাটি নদীর পাড়ে ফেলে সবাই ওপারে পালিয়ে যায়। বিকাল হতেই আর কেউ আসবে না এটা নিশ্চিত হয়ে পরপর চোলাই ভাটিতে আগুন দেওয়া হয়। অন্ধকার নামার আগেই আবগারি দপ্তর এবং পুলিশ বাহিনী ঝড়ের গতিতে ফের অভিযান চালায়। তখন চোলাই মদের সঙ্গে জড়িত শতাধিক পরিবারের লোকজন বউ-বাচ্চা নিয়ে চড়াও হয়। পুলিশ লাঠি চালিয়ে সবাইকে হটানোর ক্ষমতা রাখলেও সামনে অসংখ্য মহিলা ও বাচ্চারা থাকায় সে রাস্তায় না হেঁটে আটক করা চারটি নৌকা ফেলে এলাকা ছেড়ে চলে আসে।
19th  May, 2017
মনুয়াকাণ্ডের ছায়া এবার হাওড়াতেও
ফোনে কাতর কণ্ঠে স্বামীকে ডেকে পাঠিয়ে প্রেমিক ও সুপারি কিলার দিয়ে খুনের চেষ্টা স্ত্রীর

 নিজস্ব প্রতিনিধি, হাওড়া: বারাসতের মনুয়াকাণ্ডের ছায়া এবার হাওড়া জেলাতেও। মনুয়া মজুমদারের পরিণতি দেখেও কোনও শিক্ষা হয়নি বাগনানের দেবশ্রী ব্যবর্তার। ৯ বছরের বিবাহিত জীবনের তোয়াক্কা না করে স্বামী এবং ৬ বছরের মেয়েকে ফেলে প্রেমিকের হাত ধরে দেবশ্রী প্রায় এক বছর আগে গত জুন মাসে ঘর ছেড়েছিল।
বিশদ

  দিনের বেলায় বেলঘরিয়া থানার লকআপের জানালার শিক খুলে উধাও দুষ্কৃতী

 বিএনএ, বারাকপুর: দুপুরের ভাতঘুম দিয়ে থানার লকআপে আগ্নেয়াস্ত্রসহ ধরা পড়া তিন দুষ্কৃতী টানটান হয়ে শুয়েছিল। ডিউটি অফিসারের ঘরের ভিতরে লকআপ। স্বাভাবিকভাবে এই লকআপ অনেকটাই নিরাপদ এলাকা। ফলে, কাঠফাটা গ্রীষ্মে নজরদারিতে কিছুটা ঢিলেঢালা ছিল। সেই সুযোগেই কেল্লা ফতে।
বিশদ

  বিষাক্ত মেটালিক ইয়েলো বিরিয়ানির হাঁড়িতে, নষ্ট করে দিলেন পুরকর্মীরা

 নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: কলকাতা পুরভবনের পাশেই একের পর এক নামকরা সংস্থার ঝাঁ চকচকে রেস্তরাঁ। নিউ মার্কেট, ধর্মতলা চত্বরে কেনাকাটা করতে আসা মানুষজন তো আছেনই, এই সব নামী রেস্তরাঁতে স্রেফ খাওয়ার জন্যও আসেন অনেকে।
বিশদ

অনুপমের বাড়ি থেকে অস্ত্রসহ
বেশ কিছু নথি ও নমুনা উদ্ধার

বিএনএ, বারাসত: ‘আজ একটু সেলিব্রেশন হবে না’? খুনের দিন অনুপমের বাড়িতে যাওয়ার আগে প্রেমিকা মনুয়া মজুমদারের কাছে এমনই আবদার করেছিল প্রেমিক অজিত রায়। মনুয়া ছোট্ট উত্তর দিয়ে বলেছিল, ‘ঠিক আছে, তবে বেশি নয়। কাজটা করতে হবে’।
বিশদ

  প্রমোদ ভ্রমণের জন্য ময়দান এলাকায় সার্কুলার রুটে হেরিটেজ ট্রাম চালাতে চায় পশ্চিমবঙ্গ পরিবহণ নিগম

 নিজস্ব প্রতিনিধি , কলকাতা: এবার প্রমোদ ভ্রমণের জন্য ময়দান এলাকায় সার্কুলার রুটে হেরিটেজ ট্রাম চালাতে চায় পশ্চিমবঙ্গ পরিবহণ নিগম। শহরে ঘুরতে আসা পর্যটকদের কথা ভেবেই এই তোড়জোড় শুরু করেছে তারা। এই পরিষেবা শুরু করতে ময়দান চত্বরে প্রয়োজনীয় পরিকাঠামো তৈরির প্রয়োজন। সেই কাজের জন্য সেনাবাহিনীর অনুমোদন দরকার। এ নিয়ে ইতিমধ্যেই আলোচনা শুরু হয়েছে বলে পরিবহণ দপ্তর সূত্রের খবর।
বিশদ

  মৌলালি থেকে গ্রেপ্তার ভুয়ো ডাক্তার

 নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: ভুয়ো ডাক্তার অভিযোগে খাস কলকাতা থেকে গ্রেপ্তার হলেন এক ব্যক্তি। দক্ষিণ কলকাতার একটি হাইপ্রোফাইল নার্সিংহোমে যুক্ত রয়েছেন নরেন পান্ডে নামে ওই ‘চিকিৎসক’। শুক্রবার সন্ধ্যায় তাঁকে মৌলালির কাছে একটি বেসরকারি ডায়াগনস্টিক সেন্টার থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।
বিশদ

  ২ বছর ধরে ঠিকানা বারাসত হাসপাতাল
হারিয়ে যাওয়া মানসিক ভারসাম্যহীন তামিল রোগিণী সুস্থ হয়ে গ্রামে ফিরবেন সোমবার

 অলকাভ নিয়োগী, বারাসত, বিএনএ: হাসপাতালের চার দেওয়ালই তাঁর ঘর। চিকিৎসক, নার্স ও কর্মীরা তাঁর আত্মীয়। তাঁদের সঙ্গে হাসিঠাট্টায় দিনযাপন হয় বিশালাক্ষীর। কম দিন তো নয়, টানা দু-দু’টো বছর। দিন কয়েক আগেও বারাসত হাসপাতালের মানসিক বিভাগের বেডে শুয়ে তিনি কাঁদতে কাঁদতে আক্ষেপ করেছিলেন—আমি কী কোনওদিন নিজের বাড়িতে ফিরতে পারব না!
বিশদ

 ব্রাবোর্ন, স্ট্র্যান্ড রোডে ইস্ট-ওয়েস্ট মেট্রোর কাজ দ্রুত করতে উদ্যোগ

 নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: ব্রাবোর্ন রোড ও স্ট্র্যান্ড রোডে ইস্ট-ওয়েস্ট মেট্রোর কাজে গতি আনতে আগামী সপ্তাহ থেকেই মাঠে নামছে প্রশাসন। ওই এলাকার বাসিন্দাদের চিহ্নিতকরণের পর বাস্তব পরিস্থিতি খতিয়ে দেখে বিশেষজ্ঞদের পরামর্শের ভিত্তিতে কাজ এগবে।
বিশদ

বাসন্তী: তৃণমূলের গোষ্ঠী সংঘর্ষে উত্তপ্ত এলাকা, খুনোখুনিও হতে পারে যে কোনও দিন

 নিজস্ব প্রতিনিধি, দক্ষিণ ২৪ পরগনা: বাসন্তী বিধানসভা কেন্দ্র নিয়ন্ত্রণ কার হাতে থাকবে তা নিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসের বিধায়ক জয়ন্ত নস্করের শিবিরের সঙ্গে দলের ক্যানিং পূর্বের বিধায়ক শওকত মোল্লার যুব সংগঠনের লড়াইয়ে পুরো এলাকা উত্তপ্ত হয়ে গিয়েছে।
বিশদ

Pages: 12345




একনজরে
 বিএনএ, রায়গঞ্জ: উত্তর দিনাজপুর জেলার কুলিক ও শ্রীমতি নদীর নাব্যতাসহ নানা ধরণের সমস্যা মেটাতে দক্ষিণ দিনাজপুরের একটি পরিবেশপ্রেমী সংগঠন আন্দোলনে নামার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। সংগঠনের দাবি, দীর্ঘদিন ধরেই কুলিক নদীর নাব্যতা হারানো, যত্রতত্র পারের মাটি কেটে নেওয়ার ঘটনা ঘটছে। শ্রীমতি নদীর ...

 নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: শিক্ষক শিক্ষণের নিয়ামক সংস্থা ন্যাশনাল কাউন্সিল ফর টিচার এডুকেশন (এনসিটিই) এবার ইনটার্ন নিয়োগ করবে। এই মর্মে একটি বিজ্ঞপ্তিও জারি করেছে তারা। পড়ুয়া, গবেষক ও অন্যান্য বিভাগের বিশেষজ্ঞদের এই কাজে যুক্ত করার পরিকল্পনা নিয়েছে এনসিটিই। শিক্ষক প্রশিক্ষণের পাঠ্যক্রম ...

বোকারো (ঝাড়খণ্ড), ২৬ মে (পিটিআই): মাওবাদী হামলার জেরে ব্যাহত হল গোমো-বারকানানা শাখার ট্রেন চলাচল। বৃহস্পতিবার রাতে ডুমরি বিহার রেল স্টেশনে হানা দেয় মাওবাদীরা। জানা গিয়েছে, ...

 বিএনএ, তমলুক: লালবাজার অভিযানে দলের নেতা-কর্মীদের উপর লাঠি চালানোর প্রতিবাদে শুক্রবার বিকালে পূর্ব মেদিনীপুর জেলার বিভিন্ন প্রান্তে বিক্ষোভ দেখায় বিজেপি নেতৃত্ব। এদিন বিকালে তমলুকের হলদিয়া-মেচেদা ...


আজকের দিনটি কিংবদন্তি গৌতম
৯১৬৩৪৯২৬২৫ / ৯৮৩০৭৬৩৮৭৩

ভাগ্য+চেষ্টা= ফল
  • aries
  • taurus
  • gemini
  • cancer
  • leo
  • virgo
  • libra
  • scorpio
  • sagittorius
  • capricorn
  • aquarius
  • pisces
aries

বিদ্যার্থীদের ক্ষেত্রে আজকের দিনটি শুভ। কর্মে সাফল্য। অবিবাহিতদের বিবাহের যোগ। প্রেমপরিণয়ে জটিলতা বৃদ্ধি।প্রতিকার: প্রবাহিত জলস্রোতে ... বিশদ


ইতিহাসে আজকের দিন

১৯৬৪: স্বাধীনতা সংগ্রামী ও ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহরুর মৃত্যু
১৯৬২: ভারতীয় ক্রিকেটার রবি শাস্ত্রীর জন্ম
১৯৭৭: শ্রীলঙ্কার ক্রিকেটার মাহেলা জয়বর্ধনের জন্ম




ক্রয়মূল্য বিক্রয়মূল্য
ডলার ৬৩.৭৪ টাকা ৬৫.৪২ টাকা
পাউন্ড ৮১.৭৫ টাকা ৮৪.৭২ টাকা
ইউরো ৭১.০৭ টাকা ৭৩.৬০ টাকা
পাকা সোনা (১০ গ্রাম) ২৯, ২৯৫ টাকা
গহনা সোনা (১০ (গ্রাম) ২৭,৭৯৫ টাকা
হলমার্ক গহনা (২২ ক্যারেট ১০ গ্রাম) ২৮, ২১০ টাকা
রূপার বাট (প্রতি কেজি) ৪০, ২০০ টাকা
রূপা খুচরো (প্রতি কেজি) ৪০, ৩০০ টাকা

দিন পঞ্জিকা

১৩ জ্যৈষ্ঠ, ২৭ মে, শনিবার, দ্বিতীয়া অপঃ ৫/৩২, মৃগশিরানক্ষত্র অপঃ ৬/৭, সূ উ ৪/৫৬/২৩, অ ৬/১০/৫৫, অমৃতযোগ দিবা ৩/৩১-অস্তাবধি রাত্রি ৬/৫৩-৭/৩৬, পুনঃ ১১/১২-১/২১ পুনঃ ২/৪৭-উদয়াবধি, বারবেলা ৬/৩৬ পুনঃ ১/১৩-২/৫২ পুনঃ ৪/৩২-অস্তাবধি, কালরাত্রি ৭/৩২ পুনঃ ৩/৩৬-উদয়াবধি।
১২ জ্যৈষ্ঠ, ২৭ মে, শনিবার,দ্বিতীয়া রাত্রি ৮/৪৯/৩, মৃগশিরানক্ষত্র রাত্রি ৯/৩১/১৬, সূ উ ৪/৫৫/২, অ ৬/১১/৩৫, অমৃতযোগ দিবা ৩/৩২/১৭-৬/১১/৩৫ রাত্রি ৬/৫৪/২৯-৭/৩৭/২৩, ১১/১১/৫২-১/২০/৩৩, ২/৪৬/২০-৪/৫৪/৫৬, বারবেলা ১/১২/৫৩-২/৫২/২৭, কালবেলা ৬/৩৪/৩৬, ৪/৩২/২২-৬/১১/৩৫, কালরাত্রি ৭/৩২/১, ৩/৫৪/৩০-৪/৫৪/৫৬।
৩০ শাবান

ছবি সংবাদ

এই মুহূর্তে
ইতিহাসে আজকের দিনে

 ১৯৬৪: স্বাধীনতা সংগ্রামী ও ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহরুর মৃত্যু
১৯৬২: ভারতীয় ক্রিকেটার রবি শাস্ত্রীর জন্ম
১৯৭৭: শ্রীলঙ্কার ক্রিকেটার মাহেলা জয়বর্ধনের জন্ম

09:46:00 PM

'একনায়কতন্ত্র চলছে, সম্পূর্ণ বিরোধিতা করি', জবাইয়ের উদ্দেশ্যে গবাদি পশু কেনাবেচা বন্ধ সংক্রান্ত কেন্দ্রের নির্দেশিকা প্রসঙ্গে প্রতিক্রিয়া পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের 
জবাইয়ের উদ্দেশ্যে কোনও গবাদি পশু কেনা বা বিক্রি করা যাবে না। গতকাল কেন্দ্রীয় সরকারের জারি করা এই নির্দেশিকার তীব্র বিরোধিতা করলেন মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। এদিন তিনি বলেন, 'প্রতিবার কেন্দ্র যুক্তরাষ্ট্রীয় কাঠামো ভেঙে দিচ্ছে। রাজ্য সরকারের সঙ্গে কথা না বলে নিজেরাই সিদ্ধান্ত নিচ্ছে। একনায়কতন্ত্র চলছে, এর সম্পূর্ণ বিরোধিতা করি।' তিনি আরও জানান, সাম্প্রদায়িকতা কোনও ভাবেই মানা হবে না। 

06:08:20 PM

জম্মু-কাশ্মীরের ত্রালে সেনা-বিক্ষোভকারীদের সংঘর্ষে ১জনের মৃত্যু 

04:47:02 PM

শিলিগুড়ির ফুলবাড়িতে শ্যালিকাকে অ্যাসিড ছুঁড়ল জামাইবাবু, জখম ২ 
শ্যালিকাকে অ্যাসিড ছুঁড়ে জখম করল জামাইবাবু। অ্যাসিড লেগে জখম হয়েছে এক শিশুও। শিলিগুড়ির ফুলবাড়ির ওই ঘটনায় অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। 

02:54:17 PM

উত্তরাখণ্ডে বজ্রাঘাতে মৃত ৩, জখম ৯

02:12:00 PM

বিক্ষোভে উত্তাল বারাসত আদালত চত্বর, প্রহৃত মনুয়ার আইনজীবী 
হৃদয়পুরে প্রেমিককে দিয়ে স্বামীকে খুনের ঘটনায় ধৃত মনুয়া মজুমদারকে আদালতে পেশ করা নিয়ে উত্তাল বারাসত আদালত চত্বর। সকাল থেকেই সেখানে বিক্ষোভ দেখাচ্ছে সাধারণ মানুষ। মারধর করা হয়েছে মনুয়ার আইনজীবীকে। বিশাল পুলিশ বাহিনী ও RAF মোতায়েন থাকলেও পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হচ্ছে না। 

01:58:27 PM






বিশেষ নিবন্ধ
নদী তুমি কার
বিশ্বজিৎ মুখোপাধ্যায়: ১৯৪৭ সালে দ্বিখণ্ডিত স্বাধীনতা কেবলমাত্র মানুষকে ভাগ করেনি, প্রাকৃতিক সম্পদেও ভাঙনের সাতকাহন সূচিত ...
চীন, পাকিস্তান বেজিংয়ে ফাঁকা মাঠ পেয়ে গেল ভারতের কূটনৈতিক ভুলের কারণে
কুমারেশ চক্রবর্তী: মাত্র কিছু দিন আগে বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ামক সংস্থা আইসিসি’র এক ভোটে ৯-১ ভোটে ...
ভুলে যাওয়ার রাজনীতি
 সমৃদ্ধ দত্ত: আমাদের প্রিয় গুণ হল ভুলে যাওয়া। রাজনৈতিক নেতানেত্রীরা সেটা জানেন। তাই তাঁদের খুব ...
রোমান্টিক বিপ্লবের ৫০ বছর নকশালবাড়ি
অভিজিৎ দাশগুপ্ত: আগে কোনওদিন এই স্টেশনটা আমি দেখিনি। শহরের রাস্তা থেকে সরাসরি উঠে গিয়েছে ওভারব্রিজ। ...
 ভারতীয় সেনাবাহিনী ভালোভাবেই জানে কীভাবে শিক্ষা দেওয়া যায়
অরুণ রায়: পাকিস্তান আমাদের সৈন্যকে মেরেছে। তাই যুদ্ধ চাই। যুদ্ধ করেই পাকিস্তানকে উচিত শিক্ষা দেওয়া ...